ফুর্তি করতে ক্লাবে গেলেও কোন ক্লাবেরই সদস্য নন পরীমণি

অনলাইন ডেস্ক

ফুর্তি করতে ক্লাবে গেলেও কোন ক্লাবেরই সদস্য নন পরীমণি

ঢাকাই চলচ্চিত্রের আলোচিত নায়িকা পরীমণি। গত কয়েকদিন থেকে ধর্ষণ ও হত্যাচেষ্টায় আনা অভিযোগ নিয়ে তোলপাড় বিনোদন জগত। এ ইস্যুতে মামলাও হয়েছে। ইতোমধ্যেই মামলার প্রধান আসামিসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

বোট ক্লাবকাণ্ডের রেশ কাটতে না-কাটতেই পরীমণির বিরুদ্ধে ওঠে গুলশান কমিউনিটি ক্লাবে ভাঙচুরের অভিযোগ। এরপর নেটদুনিয়ায় চর্চার বিষয় হয়ে দাঁড়ায় পরীমণির ক্লাবপ্রীতি। প্রশ্ন ওঠে- পরীমণি কি নিয়মিত ক্লাবে যেতেন? যদি তাই হয়, তাহলে তিনি কোন ক্লাবের সদস্য?

এমন প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে বেশ বেগ পেতে হয়। কারণ তিনি কোন ক্লাবেরই সদস্য নন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক তার এক ঘনিষ্ঠজন জানান, পরীমণি কোনো ক্লাবেরই সদস্য নন। ফলে তার পক্ষে নিয়মিত কোনো ক্লাবে যাওয়া সম্ভব নয়। সূত্র আরো জানায়, পরীমণি অধিকাংশ মিটিং পাঁচ তারকা হোটেলে অথবা বাসায় করেন।

আরও পড়ুন


প্রেমিকের সঙ্গে থাকতে ১৭৫ কোটিতে বাড়ি কিনলেন জ্যাকুলিন

তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোগানের দলীয় কার্যালয়ে ককটেল হামলা

লুটপাটতন্ত্রের মূলহোতা বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

আমাদের লক্ষ্য বাংলাদেশকে দারিদ্র্যমুক্ত করা: প্রধানমন্ত্রী


যদিও পরীমণির নিয়মিত ক্লাবে যাওয়ার বিষয়টি স্পষ্ট নয়। তবে বোট ক্লাবকাণ্ডের আগে গুলশান ও বনানী এলাকার বেশ কয়েকটি ক্লাবের যাওয়ার কথা শোনা গেছে। এসব অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ মামলার বিষয়গুলো পর্যবেক্ষণ করছে বলে জানা যায়।

বোট ক্লাবের ঘটনায় এই চিত্রনায়িকাকে সংবাদ সম্মেলন, মামলা, ইত্যাদি ধকল সামলাতে হয়েছে। ঘটনার পর থেকেই ঘনিষ্ঠদের বলে আসছিলেন তিনি মানসিকভাবে তো বটেই শারীরিকভাবেও অসুস্থ বোধ করছেন। গত ১৭ জুন তার জ্বর আসে। চিকিৎসকের পরামর্শে পরীমনি ওষুধ খাচ্ছেন এবং বর্তমানে বাসায় আছেন। উল্লেখিত তারিখ থেকে তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন বন্ধ রয়েছে। 

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

শামসুন্নাহার থেকে পরীমনি বনে যাওয়ার গল্প শোনালেন প্রথম স্বামী

অনলাইন ডেস্ক

শামসুন্নাহার থেকে পরীমনি বনে যাওয়ার গল্প শোনালেন প্রথম স্বামী

পরীমণিকে নিয়ে মুখ খুলেছেন তার প্রথম স্বামী ফেরদৌস কবীর সৌরভ। তার মুখ থেকে জানা গেল কীভাবে শামসুন্নাহার থেকে পরীমণি বনে গেলেন ঢাকাই চলচিত্রের এ নায়িকা।

বুধবার (০৪ আগস্ট) বিকেলে পরীমণিকে তার বাসা থেকে প্রথমে আটক করা হয়। র‌্যাবের অভিযানে পরীমণির বাসায় বিপুল পরিমাণ মদ ও ভয়ঙ্কর মাদকদ্রব্য উদ্ধার করা হয়েছে।

পরীমণির গ্রেপ্তারের পর তার সাবেক স্বামী ফেরদৌস কবীর সৌরভের সাক্ষাৎকার একটি শীর্ষস্থানীয় পত্রিকা।

বৃহস্পতিবার পত্রিকার অনলাইন সংস্করণে ওই সাক্ষাৎকার প্রকাশ করা হয়।

সেখানে সৌরভ জানান, শামসুন্নাহার স্মৃতি ওরফে পরীমণির সঙ্গে ২০১২ সালের এপ্রিল মাসে বিয়ে হয় সৌরভের। সৌরভ ভালো ফুটবল খেলতে পারায় তার ডাক পড়ে ঢাকায়। তখন স্ত্রীকে নিয়ে ঢাকার বনশ্রীতে বাসা ভাড়া নেন। পরীমণিকে মিরপুরের একটি কলেজে ভর্তি করেন।

সৌরভের দেওয়া তথ্য মতে, কলেজে পড়া অবস্থায় মিডিয়ায় জড়িত এক ব্যক্তির নজরে পড়েন পরী। পরীর বিভিন্ন রকম ছবি তুলে পত্রিকায় ছাপেন ওই ব্যক্তি। এরপর তাকে মডেল ও অভিনেত্রী হওয়ার স্বপ্ন দেখান সেই ব্যক্তি। তখন থেকেই শামসুন্নাহার স্মৃতি নাম পাল্টে পরীমণি হয়ে যান।

এর কিছু দিন না যেতেই পরীমণি উশৃঙ্খল জীবন যাপন শুরু করেন। ফলে স্বামীর সঙ্গে দূরত্ব শুরু হয়। পরে মিডিয়ার সঙ্গে জড়িত সেই ব্যক্তিকে পরীমণি বিয়ে করেছেন বলে সৌরভ জানতে পারেন। এরপর ২০১৫ সালে সৌরভ ঢাকা ছেড়ে কেশবপুরে ফিরে যান।

স্বামীকে বিদায় করার পরই পরীমণি মাদকে জড়িয়ে পড়েন। ২০১৬ সাল থেকে তিনি নিয়মিত মাদকাশক্ত বলে জানিয়েছেন র‌্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

পরবর্তী খবর

ব্ল্যাকমেইল ও পর্নো ব্যবসায় যে দুই তরুণীকে ব্যবহার করতেন রাজ

অনলাইন ডেস্ক

ব্ল্যাকমেইল ও পর্নো ব্যবসায় যে দুই তরুণীকে ব্যবহার করতেন রাজ

প্রতারণা ও পর্নো ব্যবসায় দুই তরুণীকে ব্যবহার করে আসছেন রাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার কথিত চলচ্চিত্র প্রযোজক নজরুল  ইসলাম রাজ।

এদের একজনের ডাক নাম সেমি এবং অপরজন কাঁকন। দুজনই তার সার্বক্ষণিক সঙ্গী। এ দুই তরুণীকে দিয়ে তিনি ব্ল্যাকমেইলিংয়ের কাজ করতেন। র‌্যাব সূত্র এসব তথ্য নিশ্চিত করেছে। 

সূত্র জানায়, পাশ্চাত্য পোশাকে অভ্যস্ত সেমি এবং কাঁকনকে নিয়ে হাজির হতেন সরকারি কর্মকর্তাদের ফ্ল্যাটে অথবা বাসায়। একপর্যায়ে অনেকেই তাদের প্রেমে পড়ে যেতেন। যে কোনো মূল্যে তাদের সান্নিধ্য পেতে চাইতেন।

এমন দুর্বলতার সুযোগ কাজে লাগিয়ে সরকারি কাজ বা তদবিরের টোপ ফেলতেন নজরুল। কোটি টাকা ঘুসের চেয়ে দ্রুততার সঙ্গে তার কাজ হয়ে যেত। এছাড়া এ দুই তরুণীকে ব্যবহার করে তিনি ক্যাসিনো সম্রাট ইসমাইল চৌধুরীর কাছাকাছি পৌঁছে যান।

ঠিকাদারি কাজের ডন হিসাবে পরিচিত জিকে শামীমের সঙ্গেও তার সখ্য গড়ে ওঠে। সম্প্রতি তিনি জিকে শামীমকে কারাগারে বিশেষ সুবিধা পাইয়ে দিতে তদবির করছিলেন। শামীমের বোন সুবর্ণা মোস্তাফার সঙ্গে তিনি প্রতি সপ্তাহে নানা বিষয়ে শলা-পরামর্শ করেন।

পরবর্তী খবর

সিনেমায় আসার আগে ​রাজের কাছেই থাকতেন পরী

অনলাইন ডেস্ক

সিনেমায় আসার আগে ​রাজের কাছেই থাকতেন পরী

নায়িকা পরীমনিকে জিজ্ঞাসাবাদের পর এক এক করে বেড়িয়ে আসছে নানা তথ্য। এমনটিই বলছে র‌্যাব। র‌্যাব সূত্র জানায়, পরীমনিকে গ্ল্যামার জগতে নিয়ে আসেন রাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার কথিত চলচ্চিত্র প্রযোজক নজরুল ইসলাম রাজ। সিনেমায় নাম লেখানোর আগে দীর্ঘদিন তার কাছেই থাকতেন পরী। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় আসার পর নজরুল নিজের জেলার পরিচয়ে বেপরোয়া হয়ে ওঠেন।

র‌্যাব বলছে, পরীর গডফাদার হিসাবে পরিচিত নজরুল রাজ একেক সময় একেক পরিচয়ে চলাফেরা করেন। কখনও চিত্রপরিচালক, কখনও ব্যবসায়ী আবার কখনও রাজনীতিবিদ। প্রতারণার মাধ্যমে তিনি অঢেল টাকার মালিক বনে গেছেন।

বুধবার রাতে বনানীর বাসা থেকে বিপুল পরিমাণ মাদকসহ ঢাকাই সিনেমার আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমনিকে গ্রেফতার করে র‌্যাব। পরে তাকে র‌্যাব সদর দপ্তরে নেওয়া হয়। মধ্যরাত পর্যন্ত করা হয় জিজ্ঞাসাবাদ।

এদিন পরীমনি ও পিয়াসার গডফাদার হিসাবে পরিচিত রাজকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

 

পরবর্তী খবর

পরীমনি অসুস্থ, তাকে যেন কোনো কষ্ট দেয়া না হয় : সেফুদা

অনলাইন ডেস্ক

পরীমনি অসুস্থ, তাকে যেন কোনো কষ্ট দেয়া না হয় : সেফুদা

পরীমনিকে অনেক ভালো অভিনেত্রী দাবি করেছেন বহুল আলোচিত অস্ট্রিয়া প্রবাসী সেফাত উল্লাহ সেফুদা। তিনি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বলেছেন, পরীমনিকে যেন কোনো কষ্ট দেয়া না হয়।

আজ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সময় দুপুরে ফেসবুক লাইভে এসে এসব কথা বলেন তিনি।

সেফুদা বলেন, পরীমনি অনেক অসুস্থ। পরীমনি বুঝতে পারে নাই যে পুলিশ এসেছে। তাকে আগে অনেকেই থ্রেট করেছে। তাই সে মনে করেছে কোনো বাহিনী হয়তো এসেছে। সে তো থানায় টেলিফোন করেছে। থানার লোক বলতে পারতো, র‌্যাব গেছে।

সেফুদা আরও বলেন, ‘তার বাসায় কিছু লোক আছে, তারাও জানালা দিয়ে দেখতে পারত র‌্যাব আসছে কি না। বাইরে অনেক লোকজন ছিল। মিডিয়ার লোকজন ছিল। পুলিশের লোক ছিল। কিন্তু সিভিল ড্রেসে লোকজন দরজা ভেঙেছে।’

তিনি বলেন, প্রথমে আমার কাছে মনে হয়েছে কোনো নাটক করছে নাকি, না সিনেমার কোনো দৃশ্য?  কারণ পরীমনি তো অনেক ভালো অভিনেত্রী। পরে দেখলাম, না! এটা সত্যি লাইভ।

আরও পড়ুনঃ


১১ আগস্ট থেকে খোলা থাকবে সবকিছু

পরীমণি নিজের স্বার্থ হাসিলের জন্য বিভিন্ন অশ্লীল ভিডিও তৈরি করতো : র‌্যাব

পরীমনি ও প্রযোজক রাজের বিরুদ্ধে হচ্ছে ৩ মামলা

স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবে ট্রেন: টিকিট বিক্রি অনলাইনে


news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর

মধ্যরাত পর্যন্ত জিজ্ঞাসাবাদ, রাতে না ঘুমিয়ে কান্না করেছেন পরী

অনলাইন ডেস্ক

মধ্যরাত পর্যন্ত জিজ্ঞাসাবাদ, রাতে না ঘুমিয়ে কান্না করেছেন পরী

গতকাল বুধবার পরীমনির লাইভে আসার পর বনানীর বাসায় হানা দেয় আইনশৃঙ্খলা বাহীনি। পরীমনিকে বিদেশি মদ ও বিপুল পরিমাণ মাদকসহ আটক করা হয়। পরে র‌্যাবের প্রধান কার্যালয়ে নিয়ে মধ্যরাত পর্যন্ত জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়।

সূত্র জানায়, সেখানে জিজ্ঞাসাবাদের সময় নিজের ভবিষ্যৎ ক্যারিয়ার নিয়ে শঙ্কিত পরী কান্নাকাটিও করেছেন।

বুধবার মধ্যরাত পর্যন্ত জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বৃহস্পতিবার সকাল থেকে তাদে আবারও জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বিকালে গ্রেপ্তার দেখায় র‌্যাব। পরে তাকে বনানী থানায় নেওয়া হয়।

র‌্যাবের এক কর্মকর্তা জানান, জিজ্ঞাসাবাদ শেষে পরীমণিকে সদর দপ্তরের গোয়েন্দা শাখার একটি কক্ষে রাখা হয়। সেখানে তার সঙ্গে একাধিক নারী র‌্যাব সদস্য পাহারায় ছিলেন। সারা রাত ঘুমাননি পরীমনি। রাতভর কান্নাকাটি করেছেন তিনি।

র‌্যাবের কর্মকর্তারা জানান, বুধবার বিকালে অভিযানের সময় পরীমনির বাসায় প্রবেশ করা নিয়েই অনেক জটিলতা তৈরি হয়। তিনি ভেতর থেকে বাসার দরজা খুলছিলেন না। প্রায় আধঘণ্টা পর দরজা খুলে দিলে র‌্যাবের গোয়েন্দা শাখার একটি দল তার বাসায় প্রবেশ করে। পরীমণি প্রথমে র‌্যাবের গোয়েন্দা দলের কাছে উচ্চ পর্যায়ে তার অনেক যোগাযোগের কথা বলেন। পরে তার বাসা থেকে বিদেশি মদ, আইস ও এলএসডি মাদক উদ্ধারের পর চুপসে যান তিনি। এরপর আভিযানিক দলের সদস্যদের সহযোগিতা করেন তিনি।

আরও পড়ুন:


পরীমনি কাণ্ডে থমথমে ‘সুনসান এফডিসি’

প্রজ্ঞাপন জারি, রোববার ব্যাংক বন্ধ


news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর