দীর্ঘদিন পর বাবা জানলো সন্তান আসলে তার দাদার!
দীর্ঘদিন পর বাবা জানলো সন্তান আসলে তার দাদার!

দীর্ঘদিন পর বাবা জানলো সন্তান আসলে তার দাদার!

অনলাইন ডেস্ক

বিশ্বাসের ওপর ভর করেই টিকে তাকে সকল সম্পর্ক। কিন্তু  সেই বিশ্বাসেই এক বাবা হলেন প্রতারিত। তাও আবার নিজ ঘরে,আপন দাদার কাছে। এক যুবক বিশেষ কারণে সন্তানের ডিএনএ পরীক্ষা করে জানতে পারেন এই সন্তানের বাবা তিনি নন।

এতেই তার সন্দেহ হয়। পরে পরিবারের অন্যদেরও ডিএনও টেস্ট করা হয়। আর তাতেই জানা যায় সন্তানের ডিএনএ মিলে গেছে দাদুর সঙ্গে।  

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই যুবক জানান, বহু বছর পর বিশেষ কারণে যখন তার সন্তানের ডিএনএ পরীক্ষা করান, তখনই জানতে পারেন এই সন্তানের বাবা তিনি নন। সে সময় পরিবারের অন্যদেরও ডিএনও টেস্ট করা হয়। আর তাতেই জানা যায় সন্তানের ডিএনএ মিলে গেছে দাদুর সঙ্গে। এরপর আর ওই যুবকের বুঝতে বাকি ছিল না যে, তার স্ত্রীর সঙ্গে  পরকীয়ার সম্পর্ক ছিলো দাদুর।

সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশ করা সেই ভিডিওতে ওই যুবককে কাঁদতেও দেখা গিয়েছে।  

তিনি জানান, যাকে তিনি নিজের ছেলে হিসেবে বড় করছেন, সে আদতে তার চাচা হয়। কারণ দাদুর সন্তান তো চাচাই হয়। যে সময় তিনি বান্ধবীর সঙ্গে প্রেম করতেন, সেই সময় যে একই সঙ্গে তার বান্ধবী দাদুরও প্রেমিকা ছিল।

কিন্তু সে সম্পর্কেব কিছুই জানতেন না ওই যুবক। প্রেমিকার গর্ভে যে তার নয়, দাদুর সন্তান, সেই ধারণাও তার ছিল না। তিনি সরল মনে প্রেমিকার সন্তানকে নিজের সন্তান হিসেবে মেনে নিয়েছিলেন। কারণ তিনি স্বপ্নেও কল্পনা করতে পারেননি যে বয়স্ক দাদু তার গার্লফ্রেন্ডের সঙ্গে যৌনতায় মাততে পারেন!

ওই যুবকের কাঁদতে কাঁদতে নিজের এই দুর্ভাগ্যের কথা স্বীকারের ভিডিও ভাইরাল হয়ে গেছে।  

কিন্তু সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ওই ঘটনা কোন দেশের তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে ওই যুবক জার্মানির বাসিন্দা বলে জানা গেছে।

news24bd.tv/আলী

;