ভারতে অপরিশোধিত পেট্রোল ও ডিজেলের দাম সর্বোচ্চ
ভারতে অপরিশোধিত পেট্রোল ও ডিজেলের দাম সর্বোচ্চ

ভারতে অপরিশোধিত পেট্রোল ও ডিজেলের দাম সর্বোচ্চ

অনলাইন ডেস্ক

ভারতে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দামের ঊর্ধ্বগতি প্রকট আকার ধারণ করেছে। আন্তর্জাতিক বাজারে ক্রুড বা অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের দাম গত দু'তিনমাস ধরে অস্বাভাবিক কম হলেও ভারতে চলতি মাসে পেট্রল ও ডিজেল রেকর্ড দামে বিক্রি হচ্ছে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানায়, বছরের শুরু থেকে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের মধ্যে পেট্রোলের দাম ১৯ শতাংশ ও ডিজেলের দাম ২১ শতাংশ বেড়েছে। এভাবে কেবল মে মাসেই ১৩ বার ভারতে জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধি হয়েছে।

ভারতীয় নাগরিকদের মধ্যেও তেলের উচ্চমূল্যের জন্য অসন্তোষ লক্ষ্য করা যাছে। বিশেষত পেট্রোল পাম্প থেকে সরাসরি যারা তেল নেয় আন্তর্জাতিক বাজারে তেলের দাম কমলেও এর কোন সুবিধা তারা ভোগ করতে পারছে না। যার জন্য সরকারের করব্যবস্থাকেই দায়ী করছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলো। প্রসঙ্গত, ভারতে অপরিশোধিত জ্বালানি তেলের কর বিশ্বে সর্বোচ্চ।

বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানায়, পেট্রোল ও ডিজেলের ব্যাপক মূল্যবৃদ্ধির বিরুদ্ধে প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস সারা দেশ জুড়ে একাধিকবার বিক্ষোভ করেছে - দেশের বিভিন্ন শহরে কংগ্রেসের নেতাকর্মীরা পুলিশের হাতে গ্রেপ্তারও হয়েছেন।


আরও পড়ুনঃ

আফগানিস্তান যুদ্ধে পরাজয় মেনে নিয়ে যা বললেন বাইডেন

ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার ফাইনালের দিন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মাঠে থাকবে পুলিশ

বহু প্রেম করেছি, তবে মা-বাবার পছন্দেই বিয়ে করবো: তাপসী

ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার সমর্থকদের নিয়ে বুবলির ফুটবল দর্শন


উল্লেখ্য, ভারতে পেট্রল-ডিজেলের দাম চার ধাপে ঠিক করা হয়। প্রথমত শোধনাগার, এখানে পেট্রোল, ডিজেল এবং অন্যান্য পেট্রোলজাত অপরিশোধিত তেল কেনা হয়। দ্বিতীয়ত তেল সংস্থা, তারা তাদের লাভ রেখে এবং পেট্রোল পাম্পে তেল সরবরাহ করে।

তৃতীয়ত, এখানে পেট্রোল পাম্প মালিকরা তাদের নির্দিষ্ট কমিশন পেয়ে থাকেন। এবং চতুর্থত কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকারের চাপানো আবগারি শুল্ক এবং ভ্যাট প্রদানের মাধ্যমে সাধারণ জনগণ সেই তেল কেনেন।

news24bd.tv / নকিব