পাইলটদের হুমকি : বন্ধের পথে বিমানের ৪ দেশের ফ্লাইট
Breaking News
পাইলটদের হুমকি : বন্ধের পথে বিমানের ৪ দেশের ফ্লাইট

পাইলটদের হুমকি : বন্ধের পথে বিমানের ৪ দেশের ফ্লাইট

অনলাইন ডেস্ক

আগামী ৩০ জুলাইয়ের মধ্যে অন্যান্য কর্মকর্তাদের সঙ্গে বেতন সমন্বয় না হলে বাংলাদেশ বিমান ও পাইলটদের মাঝে হওয়া দ্বিপাক্ষিক চুক্তির বাইরে ফ্লাইট পরিচালনা করবেন না পাইলটরা।   বুধবার পাইলটদের সংগঠন বাংলাদেশ পাইলট অ্যাসোসিয়েশন (বাপা) এই সিদ্ধান্ত জানিয়ে দিয়েছে বিমান ম্যানেজমেন্টকে।

সকালে বাপার নির্বাহী কমিটির বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে জানান বাপার সভাপতি ক্যাপ্টেন মাহবুবুর রহমান।

তিনি বলেন, বর্তমানে আমরা ঝুঁকি নিয়েও বিমানের সঙ্গে চুক্তির বাইরে অনেক বেশি ফ্লাইট করছি।

৩১ জুলাইয়ের পর যদি আমাদের দাবি মানা না হয় তাহলে আমরা অতিরিক্ত ফ্লাইট করব না।

চলতি বছরের মে মাসে বাংলাদেশ বিমানে কর্মরতদের বেতন কাটার একটি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। মঙ্গলবার বিমানের পরিচালক (প্রশাসন) জিয়াউদ্দীন আহমেদের একটি অফিস আদেশে বিমানের সব কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন কর্তনের ওই সিদ্ধান্ত বাতিল করা হয়। তবে পাইলটদের ২৫ থেকে ৫০ শতাংশ বেতন কর্তনের বিষয়টি বহাল থাকে। মূলত এ সিদ্ধান্ত থেকেই পাইলটদের ক্ষোভের সূত্রপাত।  

জানা গেছে, পাইলটদের এই সিদ্ধান্ত বহাল থাকলে বিমানের আবুধাবী, দুবাই, দোহা ও দাম্মাম ফ্লাইট বন্ধ হয়ে যেতে পারে। এতে আগামী ঈদুল আজহার আগে মধ্যপ্রাচ্যের কয়েক হাজার যাত্রীর দেশে ফেরা অনিশ্চিত হয়ে পড়তে পারে। পাশাপাশি ভেঙে পড়তে পারে বিমানের ফ্লাইট সিডিউল।

বাপা নেতারা বলেছেন, বিমান প্রশাসন কৌশলে বিমানের সিনিয়র পাইলটদের আন্দোলন দমন করতে এক ধরনের হটকারী সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ৫ বছর বয়সী পাইলটদের বেতন কর্তনের সিদ্ধান্ত পুরোপুরি সমন্বয় করায় মাত্র ১০-১২ জন এই সুবিধা পাবেন। অথচ বিমানে মোট পাইলটের সংখ্যা ১৫২ জন। প্যাকেজ বেতন থেকে আগে ওভারসিস অ্যালাউন্স বাদ দিয়ে ওই বেতনের ওপর ২৫ শতাংশ কর্তন করা আরেক হটকারী সিদ্ধান্ত।

news24bd.tv/আলী

;