বিয়ের জন্য চাপ দেয়ায় কিশোরী প্রেমিকাকে হত্যা
বিয়ের জন্য চাপ দেয়ায় কিশোরী প্রেমিকাকে হত্যা

বিয়ের জন্য চাপ দেয়ায় কিশোরী প্রেমিকাকে হত্যা

অনলাইন ডেস্ক

কিশোরী প্রেমিকা বিয়ের জন্য প্রেমিককে চাপ দেয়ায় কিশোরীকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে চাকু এবং গলায় ফাঁস দিয়ে হত্যা করে প্রেমিক আপন (১৮) ।  

কুষ্টিয়ার মিরপুরে উদ্ধার হওয়া কিশোরী হত্যার রহস্য উন্মোচিহ হয়েছে জানিয়ে পুলিশ বলছে, হত্যাকাণ্ডের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে জড়িত এক তরুণকে গ্রেপ্তার করে তারা।  

বৃহস্পতিবার দুপুরে কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার খাইরুল আলম এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানিয়েছেন।

পুলিশ সুপার জানান, হত্যাকাণ্ডের রহস্য উন্মোচনে ঘটনার পর থেকেই অভিযানে নামে পুলিশ।

তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে আপন (১৮) নামে একমাত্র আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে হত্যাকাণ্ডের বিষয়টি স্বীকার করে আপন। সে মিরপুর পৌরসভার কুরিপোল মধ্যপাড়া মহল্লার রংমিস্ত্রি মিলনের ছেলে ও আমলা সরকারি কলেজের শিক্ষার্থী।

এর আগে বুধবার বিকাল ৪টার দিকে পুলিশ কুষ্টিয়া-মেহেরপুর সড়কে ভাঙ্গা বটতলার কাছে একটি ভুট্টা ক্ষেত থেকে উম্মে ফাতেমা (১৪) নামের এক কিশোরীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়।


বাবরের রেকর্ড গড়া সেঞ্চুরির পরও হোয়াইটওয়াশের লজ্জায় পাকিস্তান

ইসরাইলের নয়া প্রেসিডেন্টের সঙ্গে এরদোগানের ফোনালাপ

ঈদযাত্রা: আজ পাওয়া যাবে যে তারিখের টি


 

এদিকে বৃহস্পতিবার সকালে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে উম্মে ফাতেমার ময়নাতদন্ত শেষে দাফন সম্পন্ন হয়েছে।

ময়নাতদন্তকারী মেডিকেল অফিসার রুমন রহমান ও সুতপা রায় জানান, নৃশংসভাবে নির্যাতন করে তাকে হত্যা করা হয়েছে। শরীরের বিভিন্ন জায়গায় একাধিক ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এমনকি তার শরীর পোড়ানোও হয়েছে। গলায় রশি প্যাঁচানো ছিল।

news24bd.tv/আলী