পাক-আফগান উত্তেজনার মধ্যেই ইমরান খান-আশরাফ গনি বৈঠক

অনলাইন ডেস্ক

পাক-আফগান উত্তেজনার মধ্যেই ইমরান খান-আশরাফ গনি বৈঠক

আফগানিস্তান জুড়ে তালেবান হামলা জোরদার হওয়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে দেশটির সঙ্গে যখন পাকিস্তানের চাপা উত্তেজনা চলছে তখন উজবেকিস্তানের রাজধানী তাশখন্দে দু’দেশের শীর্ষ নেতাদের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

গতকাল শুক্রবার তাশখন্দে মধ্য ও দক্ষিণ এশিয়ার আন্তর্জাতিক সম্মেলনের অবকাশে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন আফগান প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনি। বৈঠকে দু’দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের পাশাপাশি পাকিস্তানের সেনা গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই’র প্রধান জেনারেল ফয়েজ হামিদ উপস্থিত ছিলেন।

দ্বিপক্ষীয় এ বৈঠকে তালেবান উত্থানকে কেন্দ্র করে দু’দেশের মধ্যকার উত্তেজনা প্রশমনের চেষ্টা করা হলেও ঠিক কী বিষয়ে তারা আলোচনা করেছেন তা গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়নি।

সাক্ষাতের আগে তাশখন্দ সম্মেলনে গনি ও খান পরস্পরকে আক্রমণ করে বক্তব্য রাখেন। প্রেসিডেন্ট গনি বলেন, প্রায় ১০ হাজার বিদেশি জঙ্গি বর্তমানে আফগানিস্তানে অবস্থান করছে এবং তারা সরকারের বিরুদ্ধে তালেবানের হয়ে যুদ্ধ করছে।

তিনি সরাসরি পাকিস্তানের নাম উল্লেখ করে বলেন, “গোয়েন্দা তথ্য বলছে, গত এক মাসে পাকিস্তানসহ অন্যান্য দেশ থেকে প্রায় ১০ হাজার জঙ্গি আফগানিস্তানে এসেছে। এছাড়া, আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষকরাও বলছেন, বৈশ্বিক সন্ত্রাসীদের সঙ্গে তালেবানের সম্পর্ক ছিন্ন হয়নি।”

প্রেসিডেন্ট গনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান ও পাকিস্তানি জেনারেলরা তাকে বহুবার বলেছেন, তারা তালেবানের হাতে আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ গ্রহণকে পাকিস্তানের স্বার্থবিরোধী বলে মনে করেন। তারা তালেবানকে রাজনৈতিক উপায়ে সংকট সমাধানে রাজি করানোর ‘সর্বোচ্চ চেষ্টা’ করবেন বলেও কাবুলকে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। আফগান প্রেসিডেন্ট বলেন, কিন্তু বাস্তবে পাকিস্তানে যেসব নেটওয়ার্ক তালেবানকে সমর্থন করে তারা এখন আফগানিস্তানে তালেবান হামলার ফলে সৃষ্ট ধ্বংসলীলায় আনন্দ উদযাপন করছে।

আরও পড়ুন


করোনায় কিশোরগঞ্জের বীর মুক্তিযোদ্ধা মৃণাল কান্তি দত্তের মৃত্যু

লেবাননে ইসরাইলি ড্রোন বিধ্বস্ত, স্বীকার করল সেনা মুখপাত্র

৯ তলা থেকে স্বামীর হাত ফসকে নিচে পড়ে গেলেন স্ত্রী (ভিডিও)

ইসরাইলি এক গুপ্তচরকে আটক করেছে লেবাননের নিরাপত্তা বাহিনী


আশরাফ গনির এ বক্তব্যের বিরুদ্ধে প্রতিক্রিয়া দেখান পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তিনি বলেন, তালেবানকে আলোচনার টেবিলে বসানোর জন্য পাকিস্তান ওই গোষ্ঠীর ওপর বহুবার ব্যাপক চাপ সৃষ্টি করেছে। তিনি আরো বলেন, আফগানিস্তানের শান্তি প্রক্রিয়ায় পাকিস্তানকে যাতে বন্ধু দেশ হিসেবে ভাবা হয় সেজন্যই তিনি গত নভেম্বরে কাবুল সফরে গিয়েছিলেন। ইমরান খান বলেন, আমরা পাকিস্তানে তালেবানের বিরুদ্ধে অভিযান চালানো ছাড়াও আরো বহুভাবে এই প্রচেষ্টা চালিয়েছি যাতে তালেবান রাজনৈতিক উপায়ে সংকট সমাধানের জন্য আলোচনার টেবিলে বসে। পাক প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আফগানিস্তানে যা কিছু ঘটে তার সবকিছুর জন্য পাকিস্তানকে দায়ী করা অত্যন্ত অন্যায় ও অবিচারমূলক।”

এদিকে পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী তাশখন্দে বলেছেন, তার দেশে শিগগিরই আফগানিস্তান বিষয়ক দু’দিনব্যাপী একটি শান্তি সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে এবং সে সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট গনিসহ শীর্ষস্থানীয় আফগান কর্মকর্তাদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে। সম্মেলনটি ৫ থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত করার উদ্যোগ নেয়া হলেও আফগান নেতারা ঈদুল আজহার পরে এটির আয়োজন করার অনুরোধ জানিয়েছেন। পাক পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, শিগগিরই এ সম্মেলনের নতুন তারিখ ঘোষণা করা হবে। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

মন্ত্রীর বাড়িতে বোমা ও বন্দুক হামলার দায় স্বীকার করল তালেবান!

অনলাইন ডেস্ক

মন্ত্রীর বাড়িতে বোমা ও বন্দুক হামলার দায় স্বীকার করল তালেবান!

আফগানিস্তানের ভারপ্রাপ্ত প্রতিরক্ষামন্ত্রী বিসমিল্লাহ খান মোহাম্মদির বাড়িতে বোমা ও বন্দুক হামলার দায় স্বীকার করেছে তালেবান। এক বিবৃতিতে আজ বুধবার হামলার সঙ্গে তালেবানের সংশ্লিষ্টতার কথা জানান মুখপাত্র জাবিহুল্লাহ মুজাহিদ। গতকাল মঙ্গলবার মধ্যরাতে এ হামলা চালানো হয়। এ সময় চারজন নিহত হয়েছেন।

হামলাকারীরা প্রতিরক্ষামন্ত্রীর বাড়ি লক্ষ্য করে গুলি চালায়। তবে সে সময় প্রতিরক্ষামন্ত্রী বাসায় ছিলেন না।

বিবৃতিতে তালেবানের মুখপাত্র জাবিহুল্লাহ মুজাহিদ বলেন, গতকাল রাতে প্রতিরক্ষামন্ত্রীর বাড়িতে হামলা চালানো হয়েছে। ভবিষ্যতেও আফগানিস্তানের শীর্ষ সরকারি কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে এমন হামলা চালানো হবে বলেও হুমকি দিয়েছেন তিনি। এদিকে এ হামলার পর মন্ত্রী বিসমিল্লাহ খান এক টুইট বার্তায় চিন্তার কিছু নেই এবং সব ঠিকঠাক আছে বলে জানিয়েছেন।

সূত্র: রয়টার্স।

news24bd.tv/এমিজান্নাত

পরবর্তী খবর

আর্থিক সংকট মেটাতে বাড়ি ভাড়া দিচ্ছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

আর্থিক সংকট মেটাতে বাড়ি ভাড়া দিচ্ছে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী

ইসলামাবাদে প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন বাজার দরে ভাড়া দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। আর্থিক সংকট মেটাতে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান সরকার। খোদ প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বাড়িই ভাড়া দেয়া হচ্ছে ।  

এর আগে অবশ্য পাকিস্তান প্রশাসন প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনটি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরিত করার প্রস্তাব করেছিল। ২০১৯ সালের আগস্ট মাসে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছিল। তারপরই ইমরান খান তার সরকারি বাসভবন ছেড়ে দেন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্মাণের জন্য।

তবে এখন বর্তমান আর্থিক সংকট মেটাতে সেই আবাসন ভাড়া দেয়ার পথেই হাঁটছে প্রশাসন। পাকিস্তানের সামা টিভি জানিয়েছে, ইসলামাবাদের রেড জোনে অবস্থিত প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনটি এবার থেকে সাংস্কৃতিক, ফ্যাশন, শিক্ষা সংক্রান্ত এবং অন্য অনুষ্ঠানের জন্য ভাড়া দেয়া হবে।

যারা ভাড়া সংক্রান্ত সব বিষয় খতিয়ে দেখা এবং নিয়মশৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য দুটি কমিটি তৈরি করা হয়েছে।  প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনের ভাড়া থেকে অর্থ সংগ্রহ করার বিষয় নিয়ে ক্যাবিনেট বৈঠকে আলোচনা হবে বলেও জানা গেছে।

খবর : এই সময়


আরও পড়ুন

চিত্রনায়িকা পরীমণি আটক হচ্ছেন!

পরীমণির বাসায় অজ্ঞাত ব্যক্তিদের হামলার দাবি, আতঙ্কে নায়িকা

পরীমণির বাসায় র‍্যাবের অভিযান, লাইভ শেষ


news24bd.tv/এমিজান্নাত 

পরবর্তী খবর

‘জাহাজ ছিনতাইয়ের অভিযোগ, ইরানবিরোধী নতুন হটকারিতার অজুহাত’

অনলাইন ডেস্ক

‘জাহাজ ছিনতাইয়ের অভিযোগ, ইরানবিরোধী নতুন হটকারিতার অজুহাত’

ওমান সাগরের সাম্প্রতিক ঘটনাবলী এবং জাহাজ ছিনতাইয়ের পশ্চিমা অভিযোগের নিন্দা জানিয়েছে ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের সামরিক বাহিনী। মঙ্গলবার ইরানের সামরিক বাহিনীর মুখপাত্র ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আবুলফাজল শেকারচি বলেন, ইরানবিরোধী নতুন হটকারিতার অজুহাত খুঁজতেই জাহাজ ছিনতাইয়ের অভিযোগ তোলা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, পশ্চিমা, সৌদি ও ইহুদিবাদী গণমাধ্যমগুলো সমুদ্র নিরাপত্তা এবং আঞ্চলিক পানিসীমা থেকে জাহাজ ছিনতাইয়ের  বিষয়ে যে সাংঘর্ষিক খবর দিয়েছে তা মূলত এক ধরনের মনস্তাত্ত্বিক যুদ্ধ। নতুন কোনো হটকারিতার জন্য তারা এই খবর প্রচার করেছে। 

ইরানি এ সেনা কর্মকর্তা আরো বলেন, বাণিজ্যিক জাহাজ চলাচলের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে ও যেকোনো সন্দেহজনক তৎপরতার বিরুদ্ধে ইরানের সামরিক বাহিনীর হাতে পূর্ণ গোয়েন্দা তথ্য থাকে এবং তারা সবসময় সাহায্যের জন্য প্রস্তুত রয়েছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স দাবি করেছে, “মনে করা হচ্ছে আরব আমিরাতের উপকূল থেকে ইরান সমর্থিত বাহিনী একটি তেলবাহী ট্যাংকার আটক করেছে।”

আরও পড়ুন


পেন্টাগনের কাছে গোলাগুলি, পুলিশ অফিসার নিহত

বিতর্কিত মডেল পিয়াসার সহযোগী মিশু গ্রেপ্তার

‘পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার মাধ্যমে ডেঙ্গু ও চিকুনগুনিয়া প্রতিরোধ করতে হবে’

কথিত মডেল মৌ’র গ্রেপ্তারের পর নাম নিয়ে বিব্রত সাদিয়া ইসলাম মৌ


সমুদ্র নিরাপত্তা বিষয়ক বিভিন্ন সূত্রের বরাত দিয়ে রয়টার্সের ওই রিপোর্টে বলা হয়েছে, আলকাতরা অথবা পিচ বহনকারী আসফ্যাল্ট প্রিন্সেস নামের ওই জাহাজটি আরব আমিরাতের উপকূল থেকে ছিনতাই হয়।

এদিকে, লন্ডন থেকে প্রকাশিত ‘দ্যা টাইমস’ পত্রিকা কয়েকটি সূত্রের বরাত দিয়ে বলেছে, ইরানের সেনা অথবা তাদের সমর্থিত কোন গোষ্ঠী জাহাজটি ছিনতাই করেছে কি না সে বিষয়ে তারা পরীক্ষা নিরীক্ষা করে দেখছে।

এদিকে, ইউনাইটেড কিংডম মেরিটাইম অপারেশন্স নামের একটি সংস্থা সংযুক্ত আরব আমিরাতের ফুজাইরা বন্দরের কাছ থেকে একটি জাহাজ ছিনতাইয়ের সম্ভাবনার কথা বলেছে। তবে আজ সকালের দিকে তারা বলেছে, জাহাজ ছিনতাই সন্দেহের অবসান ঘটেছে এবং জাহাজটি নিরাপদে রয়েছে। জাহাজটিতে যারা উঠেছিল তারা নেমে গেছে। তবে সংস্থাটি ওই জাহাজের নাম পরিচয় উল্লেখ করে নি। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

পেন্টাগনের কাছে গোলাগুলি, পুলিশ অফিসার নিহত

অনলাইন ডেস্ক

পেন্টাগনের কাছে গোলাগুলি, পুলিশ অফিসার নিহত

মার্কিন সেনা সদর দপ্তর পেন্টাগন ভবনের কাছে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এই ঘটনায় একজন পুলিশ অফিসার নিহত হয়েছে বলে জানা গেছে।

মার্কিন বেশ কয়েকটি গণমাধ্যম জানিয়েছে, গোলাগুলির পর পেন্টাগন ভবন বন্ধ করে দেয়া হয়। পেন্টাগন কমপ্লেক্সের কাছে বাস প্লাটফর্মে ওই গোলাগুলি হয়েছে।

পেন্টাগন ফোর্স প্রটেকশন এজেন্সি জানিয়েছে, পেন্টাগন ভবন থেকে এরইমধ্যে লকডাউন তুলে নেয়া হয়েছে এবং তা পুনরায় খুলে দেয়া হয়েছে। করিডর ২ এবং মেট্রো প্রবেশপথ এখনো বন্ধ রয়েছে। তবে পথচারীদের চলাচলের জন্য করিডর ৩ খুলে দেয়া হয়েছে। প্রতিদিন চলাচলের জন্য পেন্টাগনের হাজার হাজার লোক মেট্রো বাস প্লাটফর্ম ব্যবহার করে থাকে।

আরও পড়ুন


বিতর্কিত মডেল পিয়াসার সহযোগী মিশু গ্রেপ্তার

‘পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার মাধ্যমে ডেঙ্গু ও চিকুনগুনিয়া প্রতিরোধ করতে হবে’

কথিত মডেল মৌ’র গ্রেপ্তারের পর নাম নিয়ে বিব্রত সাদিয়া ইসলাম মৌ

এবার টিকা নিয়ে দেয়া বক্তব্য প্রত্যাহার করলেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রী


পেন্টাগন মেট্রো এলাকায় গোলাগুলির ঘটনা সম্পর্কে আর্লিংটন ফায়ার অ্যান্ড ইএমএস এক টুইটার বার্তায় জানিয়েছে, গোলাগুলিতে আহত কয়েকজনকে তারা চিকিৎসা দিয়েছে।

চলতি বছর আমেরিকায় গোলাগুলির ঘটনায় ১৮৫ জন পুলিশ কর্মকর্তা আহত হয়েছেন যার মধ্যে ৩৫ জন মারা গেছেন। সূত্র: পার্সটুডে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

জাপানে এত বেশি ভূমিকম্প কেন হয়?

অনলাইন ডেস্ক

জাপানে এত বেশি ভূমিকম্প কেন হয়?

পৃথিবীর যে কোনো দেশের চেয়ে বেশি ভূমিকম্প অনুভূত হয় জাপানে। ভৌগলিক অবস্থানগত কারণেই দেশটিতে বেশি ভূমিকম্প হয়। দেশটিতে প্রতি বছর গড়ে দুই হাজারের মতো ভূমিকম্প সংঘটিত হয়ে থাকে।

জাপানে ২০১১ সালে ১০ হাজারের বেশি ভূমিকম্প হয়। তবে মজার বিষয় এই যে দেশটির সমস্ত অঞ্চলে এই ভূমিকম্প আঘাত করে না। বিশেষত রাজধানী টোকিওতে এর প্রভাব বেশি হয়ে থাকে। ভূমিকম্পগুলোর অধিকাংশই ক্ষীণ হয়ে থাকে।

পৃথিবীর কাঠামো মোটামুটি তিনটি ভাগে বিভক্ত। প্রথমত, বহির্ভাগের লবণাক্ত ও কঠিন ভূতক (পুরুত্ব প্রায় ৩০ কি.মি), দ্বিতীয়ত এর নিচে যা ২৯০০ কি.মি পুরু এক ধরনের ঘন ও আঠালো অংশ আর তৃতীয়ত সাড়ে তিন হাজার ব্যাসের কেন্দ্রীয় পৃষ্ঠ। দ্বিতীয় অংশের ঘন ও আঠালো ভাগের উপরিভাগ সাতটি অংশে বিভক্ত।

এইগুলোই হচ্ছে টেকটোনিক প্লেট। প্লেটগুলোর নাম - প্রশান্ত মহাসাগরীয়, ইউরেশীয়, আফ্রিকান, আটলান্টিক, উত্তর আমেরিকান, দক্ষিণ আমেরিকান এবং ইন্দো-অস্ট্রেলীয়। টেকটোনিক প্লেটগুলোর একটি অপরটির সঙ্গে সংঘর্ষ হলে অথবা ধাক্কা লাগলে ভূমিকম্পের সৃষ্টি হয়।

আরও পড়ুন


জাপানে অলিম্পিক আসরের মধ্যেই ভয়াবহ ভূমিকম্প

সাকিব-মোস্তাফিজ আইপিএল খেলতে পারবেন

গোয়েন্দার হাতে পিয়াসার ১৭ গোপন ভিডিও, মৌ’র বিয়ে ১১টি

নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছে ৪ জাহাজ, ব্রিটেনের দাবি ছিনতাই


বিশেষজ্ঞদের মতে, জাপান প্রশান্ত মহাসাগরীয় ‘রিং অব ফায়ার’ অঞ্চলে অবস্থিত। রিং অব ফায়ারের অর্থ হল আগুনের গোলা। রিং অব ফায়ার এমন একটি কাল্পনিক বেল্ট যা ঘোরার খুরের মত প্রধানত প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলকে ঘিরে রেখেছে। এই রিং অব ফায়ারে যেইসব অঞ্চল অন্তর্ভুক্ত রয়েছে তা সবচেয়ে বেশি ভূমিকম্পপ্রবণ। এই রিং অব ফায়ারই ৯০ শতাংশ ভূমিকম্পের কারণ।

৪০ হাজার কিলোমিটার দীর্ঘ এই রিং অব ফায়ার অঞ্চলে ৪৫২ টি সক্রিয় আগ্নেয়গিরি রয়েছে যা পৃথিবী পৃষ্টের মোট আগ্নেয়গিরির ৭৫ শতাংশ। এশিয়ার জাপান, পলিনেশিয়ার টোঙ্গো, দক্ষিণ আমেরিকার ইকুয়েডর এই অঞ্চলের অন্তর্ভুক্ত। তাই এইসব অঞ্চলেই বেশি ভূমিকম্প হয়ে থাকে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর