প্রেম করায় মায়ের বকুনি, 'আত্মহত্যা' মাদ্রাসা ছাত্রের
প্রেম করায় মায়ের বকুনি,  'আত্মহত্যা' মাদ্রাসা ছাত্রের

প্রেম করায় মায়ের বকুনি, 'আত্মহত্যা' মাদ্রাসা ছাত্রের

অনলাইন ডেস্ক

প্রেমে বাধা দেওয়ায় মায়ের বকুনি খেয়ে মো. ছালাহ উদ্দিন (১৮) নামে এক মাদ্রাসাছাত্র আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।  

শুক্রবার রাত ফেনীর সোনাগাজীতে  এই ঘটনা গঠে।

ছালাহ উদ্দিন কারামতিয়া দাখিল মাদ্রাসার দশম শ্রেণির ছাত্র ও চরদরবেশ ইউনিয়নের দক্ষিণ চরসাভিকারী গ্রামের সাহাব উদ্দিনের ছেলে। শুক্রবার রাত ১০টায় পুলিশ তার নিজ বাড়ির বসত ঘরের শয়ন কক্ষ থেকে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে।

পুলিশ, নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসী জানান, ছালাহ উদ্দিন নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার এক স্কুলছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলে। এর জের ধরে লুকিয়ে মোবাইলে ওই ছাত্রীর সঙ্গে কথা বলত সে।  

বিষয়টি ওই ছাত্রীর অভিভাবকদের নজরে এলে তারা বিষয়টি ছালাহ উদ্দিনের মাকে অবগত করেন। তার মা প্রেমের সম্পর্ক বিচ্ছেদ করতে তাকে বকাঝকা করেন।  

আরও পড়ুন


গরুর দাম নিয়ে প্রতিক্রিয়া কী

৮০ শতাংশ মানুষকে ভ্যাকসিন দেওয়ার কথা ভাবছে সরকার

গ্রামে ফিরে যাচ্ছেন ফুটপাতের ব্যবসায়ীরা

আজ আসছে ১০ লাখ ডোজ, কাল আরও ১০


 

মায়ের বকুনি খেয়ে শুক্রবার রাত ৯টার দিকে নিজের শয়নকক্ষে ঢুকে দরজা বন্ধ করে ফ্যানের সঙ্গে ফাঁস লাগিয়ে ছালাহ উদ্দিন আত্মহত্যা করে।  

শনিবার দুপুরে ফেনী জেনারেল হাসপাতালে ময়নাতদন্ত শেষে তাকে বিকাল ৩টায় পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।  

news24bd.tv/আলী