দৌলতদিয়া ঘাটে ঘরমুখো যাত্রীর চাপ নেই

শফিকুল ইসলাম শামীম, রাজবাড়ী

দৌলতদিয়া ঘাটে ঘরমুখো যাত্রীর চাপ নেই

পবিত্র ঈদ উল আযহার আর মাত্র এক দিন বাকী। তবুও ঘরমুখো যাত্রীদের চাপ নেই দৌলতদিয়া ফেরি ও লঞ্চঘাট এবং বাস টার্মিনালে। ফেরি ও লঞ্চে সহজে নদী পার হয়ে আসছে ঘরমুখো যাত্রীরা। দৌলতদিয়া ঘাটে পর্যাপ্ত গণপরিবহন থাকার কারণে সহজে গন্তব্য যেতে পারছেন যাত্রীরা। তবে এখনও কিছু গরুবাহী ট্রাক ঢাকা মুখি হচ্ছে।  

সোমবার সকালে দৌলতদিয়া ঘাট এলাকায় এমন চিত্র দেখা যায়।

দৌলতদিয়া লঞ্চ ঘাটের ম্যানেজার নুরুল আনোয়ার মিলন জানান, অর্ধেক যাত্রী নিয়ে লঞ্চগুলো পাটুরিয়া ঘাট থেকে ছেড়ে আসছে। এবার ঈদে ঘরমুখো যাত্রী নেই বললেই চলে। যে যাত্রী আসছে তার চেয়ে গণপরিবহন বেশি রয়েছে। এছাড়া, পর্যাপ্ত লঞ্চও রয়েছে। যে কারণে ঘাটে এসে কোন যাত্রীর নদী পারের জন্য অপেক্ষা করতে হচ্ছে না।

তিনি আরও বলেন, দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া এবং আরিচা-কাজিরহাট নৌরুটে মোট ৩৪টি লঞ্চ চলাচল করছে।

ফরিদপুর গামী এক নারী যাত্রী বলেন, প্রতি বছর ঈদে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়। এবার এখন পর্যন্ত কোন দুর্ভোগ পায়নি।

রাজবাড়ী মটর শ্রমিক ইউনিয়নের'এর সভাপতি মোঃ শহীদ মোল্লা জানান, দৌলতদিয়া ঘাটে যাত্রী নেই, গাড়ী রয়েছে। যে সকল যাত্রী আসছে তারা নির্ধারিত কাউন্টার থেকে টিকিট নিয়ে চলে যাচ্ছে। যাত্রীদের ঘাটে কোন প্রকার সমস্যা হচ্ছে না। বিগত বছর গুলোর চেয়ে এবার অনেক শান্তিতে ঘরে ফিরতে পারছেন ঘরমুখো যাত্রীরা।

আরও পড়ুন:

ফাঁস হলো বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের স্মার্টফোনে আড়িপাতার ঘটনা

যে বাঙালি আলেম হজের খুতবা অনুবাদ করবেন

এবার হোয়াটসঅ্যাপে যুক্ত হচ্ছে নতুন সিস্টেম

ইউরোপে ভয়াবহ বন্যায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১৮৮

দৌলতদিয়া বাস টার্মিনাল এলাকা ঘুরে এবং সংশ্লিষ্টদের সাথে কথা বলে জানা যায়, ঈদ উপলক্ষে দৌলতদিয়া ঘাটে ১৩টি মৌসুমী এবং ৩টি স্থায়ী সহ মোট ১৬টি কাউন্টার রয়েছে। এই কাউন্টার থেকে টিকিট সংগ্রহ করে ঘরমুখো লোকাল যাত্রীরা। কাউন্টারের পাশাপাশি ভাড়ায় চালিত প্রাইভেটকার-মাক্রোবাস, অটোরিক্সা, টেম্পু, মটরবাইক সহ বিভিন্ন প্রকার ইঞ্জিন চালিত যানবাহনে বাড়ি ফিরছে।

এদিকে, বিআইডব্লিউটিসি দৌলতদিয়া ঘাট শাখার ব্যবস্থাপক মোঃ শিহাব উদ্দিন জানান, দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ১৪টি ছোট বড় ফেরি চলাচল করছে। যানবাহন নদী পারাপারে কোন প্রকার সমস্যা হচ্ছে না। তিনি বলেন, এখন গরুবাহী ট্রাকে তেমন চাপ নেই। যাত্রীবাহী বাস ও পন্যবাহী ট্রাক গুলো ঘাটে এসে সহজে নদী পার হতে পারছে।

news24bd.tv রিমু   

 

পরবর্তী খবর

গাজীপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত যুবক নিহত

অনলাইন ডেস্ক


গাজীপুরে ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত যুবক নিহত

গাজীপুরের নিমতলী এলাকায় ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাতপরিচয় এক যুবক (৩৫) নিহত হয়েছেন।

আজ সকাল গাজীপুর সিটি করপোরেশনের পূবাইল থানাধীন নিমতলী এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে রেলওয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহটি উদ্ধার করেছে।

নিহতের পরিচয় জানা যায়নি। তার পরনে খাকি রঙের শার্ট ও চেক লুঙ্গি রয়েছে।

নরসিংদী রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইমায়েদুল জাহেদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন:


নদীতে ভাসছিলো অজ্ঞাত যুবকের মরদেহ

ঝিনাইদহে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে দুইজনের মৃত্যু

বাগেরহাটে পিকআপের ধাক্কায় ৬ ইজিবাইক যাত্রী নিহত

কে এই অভিষিক্ত শামীম পাটোয়ারী


তিনি জানান, সকালে পূবাইলের নিমতলী এলাকায় ঢাকাগামী একটি ট্রেনের নিচে কাটা পড়ে ওই যুবক। এতে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে দুপুরে ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। পরে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ নরসিংদী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। 

তিনি আরও জানান, ধারণা করা হচ্ছে ওই যুবক রেললাইনের ওপর শুয়েছিল। নিহতের পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা চলছে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

লকডাউনের প্রথম দিনে স্থবির রাঙামাটি

ফাতেমা জান্নাত মুমু, রাঙামাটি

লকডাউনের প্রথম দিনে স্থবির রাঙামাটি

লকডাউনের প্রথম দিন কেবারে স্থবির রাঙামাটি। শুক্রবার সকাল থেকে রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের কঠোর অবস্থানের পাশাপাশি ছিল পুলিশ, সেনাবাহিনী ও বিজিবির সদস্যরা। কড়া নিরাপত্তার চাদরে ডাকা ছিল রাঙামাটি।করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে কোনোপ্রকার অনিয়ম মেনে নিচ্ছে না প্রশাসন। সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতের পাশপাশি মাস্কা পড়তেও বাধ্য করা হচ্ছে মানুষদের।

ঈদের পর রাঙামাটিতে মানুষের সরব উপস্থিতি তাকলেও লকডাউনের কারণে শহরে এখন ফাকা। বন্ধ রয়েছে শপিংমল
দোকানপাট, সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান। চলাচল করেনি কোনোপ্রকার যানবাহন। সড়কে মোটরসাইকেলে দূরত্ব কমাতে
বসেছে চেকপোস্ট। শহরের মানিক ছড়ি, বনরূপা, তবলছড়ি, রিজার্ভ বাজার, শাপলাচত্বরসহ বেশ কিছু এলাকায় পুলিশ
সেনাবাহিনীর সহায়তায় চেকপোষ্ট পরিচালনা করা হচ্ছে। আর বিনাকারণে যারা ঘর থেকে বের হচ্ছে তাদের গুনতে হচ্ছে নগদ অর্থ। জড়িমানা করার পাশপাশি কঠিন শাস্তিও পেতে হচ্ছে।

এছাড়া চট্টগ্রাম-রাঙামাটি সড়কেও বন্ধ ছিল দূরপাল্লার সব ধরনের যানবাহন চলাচল।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

করোনা: বরিশাল বিভাগে একদিনে ২০ জনের মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক


করোনা: বরিশাল বিভাগে একদিনে ২০ জনের মৃত্যু

মহমারী করোনা ভাইরাসে বরিশাল বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে করোনায় সাতজন আর উপসর্গে ১৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। 

একই সময়ে শনাক্ত হয়েছেন ১৮৩ জন। পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ৪০ দশমিক ৬৭ শতাংশ।

আরও পড়ুন:


নদীতে ভাসছিলো অজ্ঞাত যুবকের মরদেহ

ঝিনাইদহে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে দুইজনের মৃত্যু

বাগেরহাটে পিকআপের ধাক্কায় ৬ ইজিবাইক যাত্রী নিহত

ভারী বৃষ্টিতে চীনে তীব্র বন্যা, ৩৩ জনের মৃত্যু


আজ সকালে বরিশাল বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনা-সংক্রান্ত সর্বশেষ প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানানো হয়।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

লঘুচাপের প্রভাবে সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত

অনলাইন ডেস্ক

লঘুচাপের প্রভাবে সমুদ্রবন্দরে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত

চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরসমূহতে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত জারি করেছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। আজ আবহাওয়ার সতর্কবার্তায় এ কথা জানানো হয়।

এতে বলা হয়, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও কাছাকাছি এলাকায় একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হয়েছে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর ও কাছাকাছি এলাকায় বায়ুচাপের তারতম্যের আধিক্য বিরাজ করছে ও গভীর সঞ্চারণশীল মেঘমালা সৃষ্টি হচ্ছে। বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা, উত্তর বঙ্গোপসাগর এবং সমুদ্র বন্দরগুলোর উপর দিয়ে ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে।

ফলে উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি এসে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।

আবহাওয়াবিদ মনোয়ার হোসেন বলেন, ‘বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট লঘুচাপটি আর শক্তিশালী হওয়ার সম্ভাবনা নেই। লঘুচাপের প্রভাবে সমুদ্রবন্দরগুলোতে ঝোড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এজন্য বন্দরগুলোতে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক দেয়া হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘লঘুচাপটি আগামীকালকের (শনিবার) মধ্যে ভারতের উড়িষ্যা বা পশ্চিমবঙ্গের উপকূলে উঠে নিষ্ক্রিয় হয়ে যাবে।’

আরও পড়ুন:


নদীতে ভাসছিলো অজ্ঞাত যুবকের মরদেহ

ঝিনাইদহে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে দুইজনের মৃত্যু

বাগেরহাটে পিকআপের ধাক্কায় ৬ ইজিবাইক যাত্রী নিহত

ভারী বৃষ্টিতে চীনে তীব্র বন্যা, ৩৩ জনের মৃত্যু


লঘুচাপের জন্য বাংলাদেশে বৃষ্টি একটু বাড়বে জানিয়ে মনোয়ার হোসেন বলেন, ‘এখন এমনিতেই দেশের দক্ষিণাঞ্চলে মৌসুমি বায়ু সক্রিয় রয়েছে। উপরের (মধ্য থেকে উত্তরাঞ্চল) দিকেও বৃষ্টি বাড়বে। বৃষ্টির এই প্রবণতা আগামীকালকের (শনিবার) পর থেকেই কমে যাবে। এই সময়ে চট্টগ্রামের দিকে অতি ভারি বৃষ্টিরও সম্ভাবনা রয়েছে।’

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

করোনা: নোয়াখালী ৪ জনের মৃত্যু

আকবর হোসেন, সোহাগ

করোনা: নোয়াখালী ৪ জনের মৃত্যু

করোনা ভাইরাসে নোয়াখালীতে গত ২৪ ঘণ্টায় চারজনের মৃত্যু হয়েছে। এনিয়ে জেলায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ১৭৫ জনে। মৃত্যুর হার এক দশমিক ২২ শতাংশ।

আজ সকালে জেলা সিভিল সার্জন ডা. মাসুম ইফতেখার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, ‘মৃতদের মধ্যে দুইজন সোনাইমুড়ীর, একজন চাটখিল ও একজন কবিরহাটের বাসিন্দা।’

এছাড়া ২৪ ঘণ্টায় জেলায় আরও ১১৬ জন শনাক্ত হয়েছেন। এনিয়ে জেলায় রোগীর সংখ্যা ১৪ হাজার ৩১৪ জনে দাঁড়াল। আক্রান্তের হার ১৩ দশমিক ১৮ শতাংশ।

আরও পড়ুন:


নদীতে ভাসছিলো অজ্ঞাত যুবকের মরদেহ

ঝিনাইদহে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে দুইজনের মৃত্যু

বাগেরহাটে পিকআপের ধাক্কায় ৬ ইজিবাইক যাত্রী নিহত

ভারী বৃষ্টিতে চীনে তীব্র বন্যা, ৩৩ জনের মৃত্যু


নতুন আক্রান্তের মধ্যে, নোয়াখালী সদরে ২৭ জন, সূবর্ণচরে ছয়জন, বেগমগঞ্জে ১০ জন, সোনাইমুড়িতে ১৯ জন, চাটখিলে চারজন, কোম্পানীগঞ্জে ২২ জন ও কবিরহাটে ২৮ জন।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর