বালিশকাণ্ডে মাসুদসহ ৭ প্রকৌশলীর জামিন বাতিলে রুল

নিজস্ব প্রতিবেদক

বালিশকাণ্ডে মাসুদসহ ৭ প্রকৌশলীর জামিন বাতিলে রুল

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ প্রকল্পের বালিশকাণ্ডের মামলায় পাবনা গণপূর্ত বিভাগের সাবেক নির্বাহী প্রকৌশলী মাসুদুল আলমসহ ৭ প্রকৌশলীর জামিন কেন বাতিল করা হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

জামিন বাতিলে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আবেদনের শুনানি নিয়ে আজ বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি এস এম মজিবুর রহমানের ভার্চ্যুয়াল বেঞ্চ দুই সপ্তাহের রুল দেন।

দুদকের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী মো. খুরশীদ আলম খান, রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল এ কে এম আমিন উদ্দিন মানিক। 

আইনজীবী খুরশীদ আলম খান রুল জারির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

৭ প্রকৌশলী হলেন-পাবনা গণপূর্ত বিভাগের সাবেক নির্বাহী প্রকৌশলী মাসুদুল আলম, উপ বিভাগীয় প্রকৌশলী মোস্তফা কামাল ও আহমেদ সাজ্জাদ খান, উপ সহকারী প্রকৌশলী জাহিদুল কবীর, শফিকুল ইসলাম, সহকারী প্রকৌশলী আমিনুল ইসলাম ও মো. তারেক।

রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের গ্রিন সিটি প্রকল্পের ২০ ও ১৬ তলা ভবনের ১১০টি ফ্ল্যাটের জন্য অস্বাভাবিক দামে বালিশসহ আসবাব ও অন্যান্য সামগ্রী কেনায় ব্যাপক দুর্নীতির অভিযোগ ওঠে। এ অভিযোগে ২০১৯ সালের ১২ ডিসেম্বর পাবনায় পৃথক চারটি মামলা করে দুদক।

পাবনায় দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়ে দুদকের উপ-পরিচালক নাসির উদ্দিন ও উপ-সহকারী পরিচালক শাহজাহান মিরাজ বাদী হয়ে এসব মামলা করেন।

ওই প্রকল্পে দুর্নীতির বিষয়ে ২০১৯ সালের ১৬ মে পত্রিকায় প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রকল্পের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের থাকার জন্য গ্রিন সিটি আবাসন পল্লীতে ২০ তলার ১১টি ও ১৬ তলার আটটি ভবন হচ্ছে। এরই মধ্যে ২০ তলার আটটি ও ১৬ তলার একটি ভবন নির্মাণ সম্পন্ন হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ


দ. কোরিয়ার কোন গালিও দেয়া চলবে না উত্তর কোরিয়ায়

তালেবানের হাত থেকে ২৪ জেলা পুনরুদ্ধারের দাবি

কাছাকাছি আসা ঠেকাতে টোকিও অলিম্পিকে বিশেষ ব্যবস্থা

গাবতলী হাটকে ১০ লাখ টাকা জরিমানা, এক ঘণ্টা হাসিল বন্ধ 


ভবনের প্রতিটি ফ্ল্যাটের জন্য একটি বৈদ্যুতিক চুলার দাম ধরা হয় সাত হাজার ৭৪৭ টাকা এবং তা ভবনে তুলতে খরচ ধরা হয় ছয় হাজার ৬৫০ টাকা, একটি বালিশের দাম ধরা হয় পাঁচ হাজার ৯৫৭ টাকা এবং তা ভবনে তুলতে খরচ ধরা হয় ৭৩০ টাকা। একটি বৈদ্যুতিক কেটলির দাম পাঁচ হাজার ৩১৩ টাকা, যা তুলতে খরচ দেখানো হয় দুই হাজার ৯৪৫ টাকা।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

সেই নুরুল ইসলাম ফের তিন দিনের রিমান্ডে

অনলাইন ডেস্ক

সেই নুরুল ইসলাম ফের তিন দিনের রিমান্ডে

রাজধানীর মোহাম্মদপুর এলাকা থেকে জাল টাকা ও বিদেশি মুদ্রাসহ গ্রেফতার ৪৬০ কোটি টাকার মালিক কম্পিউটার অপারেটর নুরুল ইসলামের ফের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

বিস্তারিত আসছে...

আর ও পড়ুন: 


সমুদ্রে নামতে মানতে হবে এই ১০ নির্দেশনা

হাতিয়ায় দেশীয় বন্দুক, তাজা গোলা ও পাইরোটেকনিক উদ্ধার

তিন কিউই ক্রিকেটারের করোনা শনাক্ত, পাকিস্তান সিরিজ বাতিল

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থতার অভিযোগে মেয়র তাপসের কুশপুত্তলিকা দাহ


 

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

ইভ্যালির সিইও রাসেল ও তার স্ত্রী তিনদিনের রিমান্ডে

অনলাইন ডেস্ক

ইভ্যালির সিইও রাসেল ও তার স্ত্রী তিনদিনের রিমান্ডে

অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে গ্রেপ্তার ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম ইভ্যালির এমডি মোহাম্মদ রাসেল এবং তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান মোছা. শামীমা নাসরিনের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) দুপর ২টার দিকে তাদের ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। এসময় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা গুলশান থানার উপ-পরিদর্শক ওয়াহিদুল ইসলাম তাদের ১০ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন।

অপরদিকে আসামিপক্ষের আইনজীবী মনিরুজ্জামান লিটন তাদের রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিন আবেদন করেন। শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম আসামিদের বিরুদ্ধে ৩ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

বিস্তাতির আসছে...

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

ইভ্যালির সিইও রাসেল ও তার স্ত্রীর ১০ দিন রিমান্ডের আবেদন

অনলাইন ডেস্ক

ইভ্যালির সিইও রাসেল ও তার স্ত্রীর ১০ দিন রিমান্ডের আবেদন

অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে করা মামলায় ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মোহাম্মদ রাসেল এবং তার স্ত্রী শামীমা নাসরিনকে (প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান) ১০ দিনের রিমান্ডে নিতে আবেদন করেছে পুলিশ।

আজ শুক্রবার দুপর ২টার দিকে তাদের ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। এসময় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা তাদের ১০ দিনের রিমান্ডের আবেদন করে। বিকাল ৩টার দিকে ঢাকা মহানগর হাকিম আতিকুল ইসলামের আদালতে তাদের রিমান্ড শুনানি অনুষ্ঠিত হবে বলে জানা গেছে।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) বিকালে মোহাম্মদপুরে স্যার সৈয়দ রোডের নিলয় কমপ্রিহেনসিভ হোল্ডিংয়ের (হাউজ নম্বর ৫/৫এ) বাসা থেকে ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনকে আটক করে র‍্যাব।

আরও পড়ুন:

নীলফামারীতে নসিমন-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৩

দেড় কোটি ছাড়িয়ে ফলোয়ার, ভক্তদের উদ্দেশে যা বললেন সাকিব

নুসরাতকে আর সমর্থন দেবেন না তসলিমা নাসরিন

অবশেষে মৃত্যুর ৫ বছর পর ‘ছাড়পত্র’ পেল দিতির শেষ সিনেমা


এর আগে বুধবার গভীর রাতে ইভ্যালির সিইও মো. রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনের বিরুদ্ধে প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ এনে গুলশান থানায় মামলা দায়ের করেন আরিফ বাকের নামের এক গ্রাহক।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

ইভ্যালির চেয়ারম্যান-এমডিকে গুলশান থানায় হস্তান্তর

অনলাইন ডেস্ক

ইভ্যালির চেয়ারম্যান-এমডিকে গুলশান থানায় হস্তান্তর

ফাইল ছবি

আলোচিত ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মোহাম্মদ রাসেল এবং তার স্ত্রী চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনকে গুলশান থানায় হস্তান্তর করেছে র‍্যাব। শুক্রবার দুপুর ১টার দিকে তাদেরকে পৃথক দুটি গাড়িতে গুলশান থানায় নেওয়া হয়।

সাদা রঙের একটি হায়েস মাইক্রোবাসে ইভ্যালির সিইও মোহাম্মদ রাসেলকে ও অপর একটি গাড়িতে চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনকে নেওয়া হয়।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) বিকালে মোহাম্মদপুরে স্যার সৈয়দ রোডের নিলয় কমপ্রিহেনসিভ হোল্ডিংয়ের (হাউজ নম্বর ৫/৫এ) বাসা থেকে ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনকে আটক করে র‍্যাব।

আরও পড়ুন:

নীলফামারীতে নসিমন-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৩

দেড় কোটি ছাড়িয়ে ফলোয়ার, ভক্তদের উদ্দেশে যা বললেন সাকিব

নুসরাতকে আর সমর্থন দেবেন না তসলিমা নাসরিন

অবশেষে মৃত্যুর ৫ বছর পর ‘ছাড়পত্র’ পেল দিতির শেষ সিনেমা


 

এর আগে বুধবার গভীর রাতে ইভ্যালির সিইও মো. রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনের বিরুদ্ধে প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ এনে গুলশান থানায় মামলা দায়ের করেন আরিফ বাকের নামের এক গ্রাহক।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

ইভ্যালিকে দেউলিয়া ঘোষণা করতে চেয়েছিল রাসেল: র‍্যাব

অনলাইন ডেস্ক

ইভ্যালিকে দেউলিয়া ঘোষণা করতে চেয়েছিল রাসেল: র‍্যাব

ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেলের দেশীয় বা আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠানের কাছে দায়সহ ইভ্যালিকে বিক্রি অথবা দেউলিয়া ঘোষণার পরিকল্পনা ছিলো বলে জানিয়েছেন র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন।

শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) এক ব্রিফিংয়ে র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন এ কথা জানান। 

ইভ্যালির হাজার কোটি টাকা দেনা রয়েছে বলে র‍্যাবের কাছে জানিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেল।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) বিকালে মোহাম্মদপুরে স্যার সৈয়দ রোডের নিলয় কমপ্রিহেনসিভ হোল্ডিংয়ের (হাউজ নম্বর ৫/৫এ) বাসা থেকে ইভ্যালির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মো. রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনকে আটক করে র‍্যাব।

এর আগে বুধবার গভীর রাতে ইভ্যালির সিইও মো. রাসেল ও তার স্ত্রী প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিনের বিরুদ্ধে প্রতারণা ও অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ এনে গুলশান থানায় মামলা দায়ের করেন আরিফ বাকের নামের এক গ্রাহক।

আরও পড়ুন:

নীলফামারীতে নসিমন-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে নিহত ১, আহত ৩

দেড় কোটি ছাড়িয়ে ফলোয়ার, ভক্তদের উদ্দেশে যা বললেন সাকিব

নুসরাতকে আর সমর্থন দেবেন না তসলিমা নাসরিন

অবশেষে মৃত্যুর ৫ বছর পর ‘ছাড়পত্র’ পেল দিতির শেষ সিনেমা


মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, গত ২৯ মে থেকে ১৬ জুন পর্যন্ত বিভিন্ন সময় ইভ্যালির পণ্যের মূল্য বাবদ ৩ লাখ ১০ হাজার ৫৯৭ টাকা অনলাইন ব্যাংকিং ও একটি ব্যাংকের কার্ডের মাধ্যমে পরিশোধ করেন গ্রাহক আরিফ বাকের ও তার বন্ধুরা। পণ্য ৭ থেকে ৪৫ দিনের মধ্যে দিতে ব্যর্থ হলে সম্পূর্ণ টাকা ফেরতের অঙ্গীকার করেছিল প্রতিষ্ঠানটি। সবশেষ ৫ সেপ্টেম্বর ইভ্যালির গ্রাহকসেবা শাখায় (কাস্টম কেয়ার সেন্টার) যোগাযোগ করে পণ্য পেতে ব্যর্থ হন আরিফ।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর