সবার জীবনে খুশির মানেটা একরকম হয়না
সবার জীবনে খুশির মানেটা একরকম হয়না

সবার জীবনে খুশির মানেটা একরকম হয়না

Other

আমরা অনেকেই ঈদের খুশিটা নানাভাবে ভাগ করে নেওয়ার চেষ্টা করছি৷ হ্যাঁ, ঈদ মানেই খুশি। তবে সবার জীবনে খুশির মানেটা একরকম হয়না।

যখন করোনাভাইরাস নামে পৃথিবীতে কিছু ছিলো না, তখনও সবার ঈদ একরকম হতোনা। পথশিশু থেকে শুরু করে দুস্থ, অসুস্থ ব্যক্তি এবং স্বজনহারা পরিবার কারও দিনটা খুশিতে কাটেনা।

কিন্তু যেকোনো খুশির উছিলা পেলে ঝাপিয়ে পড়তে চায় না, এমন কেউও নেই।

আর মহামারির এই সময়ে এই খুশি খুঁজে বেড়ানোর মানুষের সংখ্যা পরিমাপ করার সাধ্য কারও আছে বলে আমার জানা নেই। শুধু যারা একটু হলেও ভালো আছি তারা ভালো না থাকা মুখগুলোর পাশে দাঁড়ানোর সাধ্য তো রাখি!

এখন রাত ঠিক ১১ঃ৪৯ মিনিট। ২০.০৭.২০২১। আমিও অফিস শেষে বাসায় ফিরছি। কিছুটা খুশির খোঁজে আবার সাথে মনের কোণায় কোথায় একটা ব্যথার পীড়া নিয়ে। আর লিখছিলাম বসে বসে। হঠাৎ রাস্তার পাশে পড়ে থাকা এক নারীর নিথর দেহ দেখে চালক বললেন পেছনে একটা মহিলাকে রাস্তায় পড়ে থাকতে দেখলাম! সাথে সাথে গাড়ি ঘোড়াতে বললাম। দম বন্ধ হয়ে আসছিলো তাকে দেখে! নিস্তব্ধ হয়ে পড়ে আছে! মাথায় আঘাত স্পষ্ট! ঈদ নিয়ে আজকের আমার লেখার বিষয়টার মধ্যে চলে এলো অজানা এই নারীর পড়ে থাকা প্রাণহীন দেহ!

কে ইনি? কেমন হতো তার ঈদ? কেনইবা ছুটছিলেন? এই কথাগুলো জানার আগেই উনি নিউজ হয়ে যাবেন। আমাদের দায়িত্ব ছিলো পুলিশকে ইনফর্ম করা। সেটা শেষ করে তাদের আসা কনফার্ম করে ছুটলাম বাড়ির পথে।

লেখাটি ‍সাংবাদিক এমি জান্নাত-এর ফেসবুক থেকে নেওয়া  (মত-ভিন্নমত বিভাগের লেখার আইনগত ও অন্যান্য দায় লেখকের নিজস্ব। এই বিভাগের কোনো লেখা সম্পাদকীয় নীতির প্রতিফলন নয়। )

news24bd.tv/আলী

;