খুলনায় করোনায় মৃত্যু ফের দুই অঙ্কের কোটায়

নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা:

খুলনায় করোনায় মৃত্যু ফের দুই অঙ্কের কোটায়

খুলনায় একদিন পর করোনায় মৃত্যু আবারও দুই অঙ্কের কোটায় পৌঁছেছে। গত ২৪ ঘন্টায় বৃহস্পতিবার সকাল ৯টা খুলনার চারটি হাসপাতালে করোনায় দশ জনের মৃত্যু হয়েছে। 

এর আগে ২১ জুলাই করোনায় আক্রান্ত হয়ে দুই অঙ্কের নীচে ছয় জনের মৃত্যু হয়। এছাড়া খুলনায় ২০ জুলাই ১৩ জন, ১৯ জুলাই ১৩ জন, ১৮ জুলাই ২৪ জন ও ১৭ জুলাই আরও ১১ জন মারা যায়। 

গত ২৪ ঘন্টায় খুলনা করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে মারা গেছে খুলনার সোনাডাঙ্গা এলাকার হাসিনা বেগম (৭৫), ডুমুরিয়া ফাতেমা খাতুন (৬৫) নড়াইল লোহাগড়া হোসনেআরা বেগম (৪৫)। সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা গেছেন খুলনার টুটপাড়ার অনিমা রানী (৬৫) ও রূপসার রাজাপুর গ্রামের বাদশা মিয়া (৬৫), গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা গেছেন খুলনার আহসান আহমেদ রোডের মো. বদরুদ্দিন (৭৮), নিরালা আবাসিক এলাকার আব্দুস সালাম (৬৬), ঝিনাইদহের কোটচাঁদপুর মো. মুনসুর (৭০), গোপালগঞ্জ কাশিয়ানী মুন্সি বাবর আলী (৬৭), আবু নাসের হাসপাতালে মারা গেছেন খুলনার খালিশপুর লাল হাসপাতাল রোডের শিরিন আক্তার (৬০)।

জানা যায়, খুলনার করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতাল, গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, জেনারেল হাসপাতাল, সিটি মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও আবু নাসের বিশেষায়িত হাসপাতালে বর্তমান রোগী ভর্তি রয়েছে ৩২৫ জন। ২৪ ঘন্টায় নতুন করে ভর্তি হয়েছে ১৮ জন। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ৩১ জন।  

খুলনা মেডিকেল কলেজ পিসিআর ল্যাবে গতকাল ১৩৯ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৫১ জনের করোনা শনাক্ত হয়। এর মধ্যে খুলনা নগরী ও জেলার ১২৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৪৭ জনের নমুনা শনাক্ত হয়। এছাড়া বাগেরহাটে ১, যশোরে ২ ও নড়াইলের ১ জন করোনা শনাক্ত হয়েছেন।  

আরও পড়ুন:


হজে প্রথমবারের মতো নিরাপত্তার দায়িত্বে সৌদি নারী সেনা

ফরজ গোসল অবহেলার শাস্তি

আমেরিকাকে প্রতিহত করতেই রাশিয়া হাইপারসোনিক ক্ষেপণাস্ত্র নির্মাণ করছে: পেসকভ

৫০ হাজার টাকা বেতনে লোক নেবে আকিজ বিড়ি ফ্যাক্টরি


news24bd.tv / কামরুল 

পরবর্তী খবর

পিরোজপুরে আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর নিয়ে চাঁদাবাজির অভিযোগ

পিরোজপুর, ইমন চৌধুরী

পিরোজপুরে ভূমিহীনদের জন্য প্রধানমন্ত্রীর উপহার আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘরে চাঁদাবাজির অভিযোগ উঠেছে। সেখানে বসবার করতে ঘরপ্রতি ১০ থেকে ২০ হাজার টাকা চাঁদা গুণতে হচ্ছে বলে অভিযোগ ভুক্তভোগীদের। 

জেলার পাড়েরহাট আশ্রয়ণ প্রকল্পের, আবাসন সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে এই অভিযোগ করেছেন ভূমিহীনরা। অভিযুক্ত ব্যক্তি, সবকিছু নিয়ন্ত্রণের জন্য স্থানীয় ইউপি সদস্যের দিকে আঙ্গুল তুলছেন।

পিরোজপুরের ইন্দুরকানি উপজেলার পাড়েরহাট আশ্রয়ন প্রকল্পে প্রায় সাত মাস আগে অর্ধশত ঘর তৈরি হয়। এগুলো ভূমি ও গৃহহীন পরিবারের মাঝে বরাদ্দও দেয়া হয়। 

আরও পড়ুন:


করোনায় জাবি অধ্যাপকের মৃত্যু

মর্মান্তিক মৃত্যুর ঠিক আগ মুহূর্তে ছবি তোলেন তিনি

সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ স্থগিত


তবে নতুন ঘরে থাকতে পারা খুশি বেশিদিন স্থায়ী হয়নি। ভূমিহীনরা বলছেন, ঘরে থাকতে হলে ১০ থেকে ২০ হাজার করে চাঁদা দিতে হচ্ছে তাদের। না পারলে, নানাভাবে হয়রানি ও লাঞ্চিত করা হচ্ছে। এসব অভিযোগ আবাসন সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত আসাদুল নিজেকে নির্দোষ বলছেন। তার দাবি, ইউপি সদস্যের নির্দেশেই একাজ করতে হয়েছে।

চাঁদাবাজির অভিযোগ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাও জানেন। এ ব্যাপারে তদন্তের পর ব্যবস্থা নেবেন তিনি। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের আশ্রয়ণ প্রকল্পের অধীনে পিরোজপুরে তিন হাজার ১৭৯ ঘর বরাদ্দ দেয়া হয়েছে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

করোনা: সিলেটে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড

অনলাইন ডেস্ক

করোনা: সিলেটে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড

মহামারী করোনা ভাইরাসে সিলেটে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৫৬৪ জন।

আজ স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেট বিভাগীয় পরিচালক ডা. হিমাংশু লাল রায় স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।  

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, নতুন করে মারা যাওয়া ১৪ জনের ১০ জনই সিলেট জেলার, ৩ জন সুনামগঞ্জের ও একজন হবিগঞ্জ জেলার বাসিন্দা। এছাড়া আক্রান্ত ৫৬৪ জনের ২০৮ জন সিলেট জেলার, সুনামগঞ্জের ১০৭ জন, হবিগঞ্জের ১৪৬ জন, মৌলভীবাজারের ৬২ জন। এছাড়া ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সিলেটের বিভিন্ন জেলার আরো ৪১ জনের করোনা শনাক্ত হয়।  

সংশ্লিষ্টরা জানান, এরআগে একদিনে সর্বোচ্চ ১২ জন পর্যন্ত মারা গেছেন। কিন্তু ১৪ জনের মৃত্যুর রেকর্ড এটাই প্রথম।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

নরসিংদীতে ডাকাতি ও হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার ৪

অনলাইন ডেস্ক

নরসিংদীতে ডাকাতি ও হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার ৪

নরসিংদী শহরের নাগরিয়াকান্দি এলাকায় একটি দোতলা বাড়িতে ঢুকে ডাকাতি ও হত্যার ঘটনায় চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ সময় হত্যাকাণ্ডে ব্যবহৃত ছুরিসহ লুট করা স্বর্ণালংকার ও টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

আজ দুপুরে এক সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজীম এসব তথ্য জানান। সংবাদ সম্মেলনটি পুলিশ সুপার সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত হয়। 

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- রায়পুরা উপজেলার বটতলি এলাকার মৃত সিদ্দিকের ছেলে শেখ ফরিদ (৩৫), একই উপজেলার বাহেরচর এলাকার আব্দুর রহমানের ছেলে রাজা মিয়া (৩২), চর আড়ালিয়ার রাজা মিয়ার ছেলে আল-আমিন (৩৩) এবং রাজনগর এলাকার রহিম উদ্দিনের ছেলে দুলাল মিয়া (৩৭)।

পুলিশ সুপার জানান, গত ১৬ জুলাই রাতে নরসিংদী পৌর শহরের নাগরিয়াকান্দি এলাকায় জানালার গ্রিল কেটে দোতলা একটি বাড়িতে ঢুকে পরিবারের সদস্যদের জিম্মি করে স্বর্ণালংকারসহ মালামাল লুট করে সংঘবদ্ধ ডাকাত দলটি।

এ সময় ডাকাতিতে বাধা দেয়ায় গৃহকর্তা মোবারক হায়াতের ছেলে ইন্টারনেট ব্যবসায়ী সাজ্জাদ হোসেন আরিফকে (৩২) ছুরিকাঘাতে হত্যা করে ডাকাতরা।

এ ঘটনায় নিহতের বাবা মোবারক হায়াত বাদী হয়ে সদর মডেল থানায় মামলা করেন।

আরও পড়ুন:


করোনায় জাবি অধ্যাপকের মৃত্যু

মর্মান্তিক মৃত্যুর ঠিক আগ মুহূর্তে ছবি তোলেন তিনি

সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ স্থগিত


কাজী আশরাফুল আজীম আরও জানান, মামলার পরপরই ঘটনাটির তদন্ত ও আসামি গ্রেপ্তারে অভিযান চালায় পুলিশ। পরে গত ২২ জুলাই ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মরিচা এলাকা থেকে রায়পুরা উপজেলার মৃত সিদ্দিক মিয়ার ছেলে ডাকাত শেখ ফরিদকে গ্রেপ্তার করা হয়। এরপর তাকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে রোববার (২৫ জুলাই) গ্রেপ্তার করা হয় ডাকাতি ও হত্যায় জড়িত আরও তিনজনকে।

গ্রেপ্তারকৃতরা প্রাথমিকভাবে ডাকাতি ও হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। 

তাদের বিরুদ্ধে এর আগেও ডাকাতির মামলা ছিলো বলেও জানান তিনি। 

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

নোয়াখালীতে জমি নিয়ে বিরোধে দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১২

আকবর হোসেন সোহাগ, নোয়াখালী

নোয়াখালীতে জমি নিয়ে বিরোধে দু’পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১২

জমি নিয়ে বিরোধকে কেন্দ্র করে নোয়াখালীর সুধারামের আন্ডারচর ইউনিয়নের আন্ডারচর গ্রামে দুইপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ১২ জন আহত হয়েছেন। গতকাল রাতে এ ঘটনা ঘটে। 

আহতদের মধ্যে কলেজ ছাত্র রাকিব হোসেন পরান (২০), মো. জিলান (৩২), মো. রিপন (৩০), আবদুল করিম (৪০), বাপ্পি (২৫) ও মো. রাকিবকে (২৫) নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে কলেজছাত্র রাকিব হোসেন পরানের অবস্থা আশঙ্কাজনক। 

আহত ব্যক্তি ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, জমি নিয়ে বিরোধকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষ জোরদার বেলাল, এলাছ মাঝি, জামাল মাঝি ও নাসিরের নেতৃত্বে জিলান ও রাকিবের দখলীয় সম্পত্তিতে জোর পূর্বক লাঠিয়াল বাহিনী নিয়ে ঘর উঠাতে গেলে তারা বাধা দেয়। এক পর্যায়ে বেলাল ও এলাছ মাঝির নেতৃত্বে ৪০ থেকে ৫০ জন লাঠিয়াল বাহিনী হামলা ও ভাঙচুর চালায় এবং কুপিয়ে আহত করে। এতে বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। এই ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

আরও পড়ুন


বিভিন্ন জেলায় করোনা ও উপসর্গে মৃত্যুর তথ্য

গার্মেন্টস খোলার ব্যাপারে যা জানালেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

বাল্যবিয়ে মুক্ত উপজেলায় বাল্যবিয়ের চেষ্টা, জরিমানা-মুচলেকায় রক্ষা

ময়মনসিংহ মেডিকেলে করোনায় ‍মৃত্যুর রেকর্ড


সুধারাম থানার ওসি মো. সাহেদ হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, জায়গা জমি নিয়ে দুই পক্ষের মধ্যে মারামারি হয়েছে। এই ঘটনা মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। 

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

পদ্মায় জেলের জালে ধরা পড়ল ১৫ কেজির পাঙাশ

অনলাইন ডেস্ক

পদ্মায় জেলের জালে ধরা পড়ল ১৫ কেজির পাঙাশ

রাজবাড়ীর দৌলতদিয়ায় পদ্মা নদীতে জেলের ১৫ কেজি ওজনের একটি বড় পাঙাশ মাছ ধরা পড়েছে। মাছটি সাভারের এক গার্মেন্টস ব্যবসায়ী ১৯ হাজার ৫০০ টাকায় কিনে নিয়েছেন।

আজ ভোরে অন্তরমোড় এলাকার জেলে শাহিন শেখের জালে মাছটি ধরা প‌ড়ে।

স্থানীয় লোকজন জানান, মাছটি বিক্রির জন্য শাহিন দৌলতদিয়া ৫ নম্বর ফেরিঘাট এলাকায় নিয়ে যান। সেখানে ১২০০ টাকা কেজি হিসাবে ১৮ হাজার টাকায় শাকিল সোহান মৎস্য আড়তের মালিক সম্রাট শাহজাহান শেখ মাছটি কেনেন। পরে আড়তদার সাভারের এক গার্মেন্টস ব্যবসায়ীর কাছে ১৯ হাজার ৫০০ টাকায় বিক্রি করেন।

আরও পড়ুন

বিভিন্ন জেলায় করোনা ও উপসর্গে মৃত্যুর তথ্য

গার্মেন্টস খোলার ব্যাপারে যা জানালেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

বাল্যবিয়ে মুক্ত উপজেলায় বাল্যবিয়ের চেষ্টা, জরিমানা-মুচলেকায় রক্ষা

ময়মনসিংহ মেডিকেলে করোনায় ‍মৃত্যুর রেকর্ড


গোয়ালন্দ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা রেজাউল শরীফ বলেন, পদ্মা নদীর মাছ এমনিতেই সুস্বাদু। বড় কোনো মাছ হলে তো কথাই নেই। পদ্মার বড় মাছের চাহিদা সব সময়ই বেশি। সাধারণ মানুষ কিনতে না পারলেও ধনীরা খবর পেলেই কিনে নেন। আর বড় মাছে ভালো দাম পেয়ে জেলেরা খুবই খুশি হন।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর