নারী ও ইয়াবাসহ আটক : পদ গেল আ.লীগ নেতার

অনলাইন ডেস্ক

নারী ও ইয়াবাসহ আটক :  পদ গেল আ.লীগ নেতার

বৃহস্পতিবার রাতে পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটায় একটি আবাসিক হোটেল থেকে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. জাফর জোমাদ্দার ও মেহেদী হাসান মুন্না নামের দুজনকে আটক করে পুলিশ।সেসময় তাদের ব্যাগ তল্লাশি করে ২৫ পিস ইয়াবা ও একজন পতিতাসহ আটক করে মহিপুর থানায় দায়েরকৃত মাদক মামলায় তাদের জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়।

এই ঘটনায় পটুয়াখালীর দুমকিতে অনৈতিক কার্যকলাপ ও দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতিকে বহিষ্কার করা হয়েছে। 

বহিষ্কার করা নেতা হলেন দুমকি উপজেলার আঙ্গারিয়া ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. জাফর জোমাদ্দার। 

রোববার বিকালে উপজেলার আঙ্গারিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আহবায়ক গোলাম রাজ্জাক খান, যুগ্ম আহবায়ক কবির হোসেন রিপন মোল্লা ও যুগ্ম আহবায়ক নজরুল ইসলাম হাওলাদার স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

আঙ্গারিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক কবির হোসেন রিপন মোল্লা জানান, মাদকসহ অসামাজিক কার্যকলাপে যুক্ত থাকায় দলের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন করার দায়ে তাকে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতির পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। 

আরও পড়ুন:


করোনায় জাবি অধ্যাপকের মৃত্যু

মর্মান্তিক মৃত্যুর ঠিক আগ মুহূর্তে ছবি তোলেন তিনি

সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচনে ভোটগ্রহণ স্থগিত


 

উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. আবুল কালাম আজাদ বলেন, মাদকসহ গ্রেফতার এবং জেলহাজতে থাকায় তাকে (জাফর জোমাদ্দার) সাময়িকভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, অসামাজিক কার্যকলাপে জড়িতদের আওয়ামী লীগে স্থান নেই।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

চট্টগ্রামে অস্ত্রের মহড়া, ক্ষুব্ধ আওয়ামীলীগ নেতারাও

নয়ন বড়ুয়া জয়

চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় জায়গা দখল নিতে উপজেলা চেয়ারম্যান জিয়াউল হক চৌধুরী বাবুলের অস্ত্রের মহড়া। তার সাঙ্গপাঙ্গদের ফাঁকা গুলি এবং মারধরে দিশেহারা জায়গার প্রকৃত মালিকসহ স্থানীয়রা। উপজেলা চেয়ারম্যান বাবুল বলছেন নিজের সম্পদ এবং নিজেকে বাঁচাতে নিজের লাইসেন্স করা অস্ত্র দিয়েই ফাঁকা গুলি ছুঁড়িয়েছে সে। আর পুলিশ বলছে জনসম্মুখে লাইসেন্স করা অস্ত্রের ব্যবহারের কোন নিয়ম নেই। 

ভাইরাল হওয়া ভিডিও ফুটেজে দেখা যাচ্ছে সম্প্রতি লোহাগাড়ায় জায়গা দখল করতে গিয়ে লোহাগাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান জিয়াউল হক চৌধুরী বাবুল দিন দুপুরে এভাবে অস্ত্রের মহড়া দিচ্ছেন। একই সাথে তার সাঙ্গপাঙ্গদের হাতেও আছে অস্ত্র।এ সময় ভুক্তভোগী পরিবারের বসতঘর লক্ষ্য করে কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ও ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করেন তারা। তাই আতঙ্কে ঘর ছাড়া ভুক্তভোগী পরিবার।

স্থানীয়রা বলছেন, অস্ত্রধারীরা ঘটনাস্থল ছাড়ার পর পুলিশ আসে।বাবুল জানান জীবন এবং সম্পদ বাঁচাতে ব্যবহার করেছেন অস্ত্র।

আরও পড়ুন


আশ্রয়ণ প্রকল্প: এটা তো দুর্নীতির জন্য হয়নি, এটা কারা করলো?

আগের স্ত্রীকে তালাক না দিয়েই মাহিকে বিয়ে করেছে রাকিব

আমরা কখনো জানতামও না যে এই সম্পদ আমাদেরই ছিলো

নাশকতার মামলায় নওগাঁর পৌর মেয়র সনিসহ বিএনপির ৩ নেতা কারাগারে


জনসম্মুখে লাইসেন্স করা অস্ত্র ব্যবহারের কোন সুযোগ নেই বলছে পুলিশ। অস্ত্র কান্ডে ক্ষুব্ধ আওয়ামীলীগ নেতারাও। এই মহড়ায় অংশ নেয়াদের দ্রুত আইনের আওতায় আনার দাবি তাদের।

কয়েকদিন আগেই  পাশ্ববর্তী এলাকা চন্দনাইশে শোক দিবসের অনুষ্ঠানে অস্ত্রবাজীর ঘটনায় যুবলীগ নেতা গিয়াসকে সহযোগিসহ গ্রেফতার করে র‌্যাব।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

চট্টগ্রামে সাড়ে ৩ লাখ টাকার গাঁজাসহ আটক ২

নয়ন বড়ুয়া জয়, চট্টগ্রাম


চট্টগ্রামে সাড়ে ৩ লাখ টাকার গাঁজাসহ আটক ২

চট্টগ্রাম বাকলিয়া এলাকা থেকে ২১ কেজি ৪০০ গ্রাম গাঁজাসহ দুইজনকে আটক করেছে র‍্যাব। আজ তাদেরকে আটক করা হয়।

র‍্যাব বলছে, উদ্ধার করা গাঁজার মূল্য আনুমানিক ৩ লাখ ৫০ হাজার টাকা।

বিস্তারিত আসছে...

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

হাতিয়ায় দেশীয় বন্দুক, তাজা গোলা ও পাইরোটেকনিক উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক

হাতিয়ায় দেশীয় বন্দুক, তাজা গোলা ও পাইরোটেকনিক উদ্ধার

হাতিয়ায় কোস্ট গার্ডের অভিযানে দেশীয় বন্দুক, তাজা গোলা ও পাইরোটেকনিকসহ এক ডাকাত আটক হয়েছে।

বিস্তারিত আসছে...

আর ও পড়ুন: 


সমুদ্রে নামতে মানতে হবে এই ১০ নির্দেশনা


news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

পেটের ভেতর ৮ হাজার ৪৫০ পিস ইয়াবা, গ্রেপ্তার ৪

মাসুদা লাবনী

পেটের ভেতর ৮ হাজার ৪৫০ পিস ইয়াবা, গ্রেপ্তার ৪

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে পেটের ভেতর ইয়াবা নিয়ে পাচারকালে চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে  র‌্যাব। এসময় তাদের কাছ থেকে ৮ হাজার ৪৫০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।  

বিস্তারিত আসছে...

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

কিশোরীকে আটকে রেখে পতিতাবৃত্তিতে বাধ্য করায় নারী আটক

নেত্রকোনা প্রতিনিধি:

কিশোরীকে আটকে রেখে পতিতাবৃত্তিতে বাধ্য করায় নারী আটক

প্রতীকী ছবি

কিশোরীকে কাজের কথা বলে আটকে রেখে পতিতাবৃত্তিতে বাধ্য করার অভিযোগে ফাতেমা খাতুন (৪৩) নামের এক নারীকে আটক করেছে নেত্রকোনার দুর্গাপুর থানার পুলিশ। এ সময় ভুক্তভোগী ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে ঢাকায় বোনের কাছে পাঠিয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে আটককৃত নারী ফাতেমাকে আজ শুক্রবার সকালে আদালতে পাঠানো হয়েছে। 

পুলিশ জানায়, মাদারীপুর জেলার এক কিশোরী মামার বাড়ি থেকে রাগ করে ঢাকায় কাজের উদ্যেশ্যে গামেন্টর্সকর্মী বোনের বাড়ি চলে আসে। বোন মিতু কাজের জন্য নেত্রকোনার দুর্গাপুর এলাকার ফাতেমার কাছে দেন। 

ফাতেমা নিজ গ্রাম নেত্রকোনা জেলার দুর্গাপুরের চর মোক্তারপাড়া এলাকায় কিশোরীকে এনে কাজে না দিয়ে নিজ বাসায় পতিতাবৃত্তিতে বাধ্য করে। কিন্তু এ কাজ করতে না চাইলে তাকে আটকে রেখে নির্যাতন চালায়। পরে গত বৃহস্পতিবার বিকালে কৌশলে কিশোরী পালিয়ে গিয়ে পার্শ্ববর্তী আশ্রয়ন প্রকল্পে গিয়ে আশ্রয় নেয়। 

খোঁজ পেয়ে সেখান থেকে ফাতেমা ওই কিশোরীকে নিয়ে আসতে গেলে আশ্রয়ন প্রকল্পের বাসিন্ধারা থানায় খবর দিয়ে কিশোরীকে উদ্ধার করে। পরে পুলিশ গিয়ে ফাতেমাকে আটক করে কিশেরাকে উদ্ধার করে ঢাকায় বোনের বাড়ি পাঠায়। এ ঘটনায় কিশোরী বাদী হয়ে থানায় একটি মাামলা দায়ের করেছে। 

দুর্গাপুর থানার ওসি শাহ নুর এ আলম সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, কিশোরীটি ওই আশ্রয়ন প্রকল্পে গিয়ে আশ্রয় চাইলে সেখান থেকেও নিয়ে যেতে চেয়েছিল। পরে আমাদেরকে খবর দিলে আমরা সেখানে গিয়ে কিশোরীকে উদ্ধার করে তার বোনের কাছে পাঠাই। এদিকে অভিযুক্ত নারীকে আটক করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। আটক নারী ওই এলাকার আবুল কাশেমের স্ত্রী। তার বিরুদ্ধে এলাকায় অনৈতিক কাজ করার নানা অভিযোগ রয়েছে। 

আরও পড়ুন:


করোনায় স্কুল বন্ধ থাকায় শ্রেণিকক্ষে সপরিবারে বসবাস

বগুড়ায় বাসের ধাক্কায় অটোরিকশার দুই নারী যাত্রী নিহত

জামালপুর থেকে নিখোঁজ ৩ মাদ্রাসাছাত্রীকে ঢাকা থেকে উদ্ধার

যশোরের ১৮টি রুটে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে


NEWS24.TV / কামরুল

পরবর্তী খবর