মৃত সন্তান প্রসবের একদিন পর মৃত্যু হলো করোনা আক্রান্ত মায়েরও

অনলাইন ডেস্ক

মৃত সন্তান প্রসবের একদিন পর মৃত্যু হলো করোনা আক্রান্ত মায়েরও

সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা রহিমা খাতুনের (৩৬) এক সপ্তাহ আগে করোনা শনাক্ত হয়। এরপর থেকে তিনি কুষ্টিয়া করোনা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে মৃত সন্তান প্রসব করেন তিনি। এরপর আজ শুক্রবার বেলা একটার দিকে মারা যান রহিমা খাতুন। কুষ্টিয়া করোনা হাসপাতালে ঘটে এ মৃত্যুর ঘটনা।

রহিমা খাতুনের স্বামী আশরাফুল আলম মৌসুমী ব্যবসায়ী। রহিমা মিরপুর উপজেলার হালসা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক ছিলেন।

রহিমার বোন হাজেরা খাতুন বলেন, ‘গত শুক্রবার আমার বোনটা ভালো ছিল, খাবার খেয়েছিল। আজ চলে গেল, সঙ্গে বাচ্চাটাও। কিছুই রইল না আর।’

বোনের পাশে থাকা ভাই আশরাফুল আলম বলেন, ‘অনেক চেষ্টা করলাম, কাউকে ধরে রাখতে পারলাম না। বোনজামাই আশরাফুল তাঁর সন্তানকে দাফন করতে গিয়েছিলেন। এরপর বোনের মৃত্যুর খবর শুনে তিনিও শোকে কাতর হয়ে পড়েছেন।’

রহিমার স্বামী আশরাফুল আলম জানিয়েছিলেন, ২০ জুলাই জ্বরসহ করোনার কিছু উপসর্গ দেখা দেয় রহিমার শরীরে। ২৩ জুলাই তাঁকে করোনা হাসপাতালে আনা হয়। নমুনা দেওয়ার পর পজিটিভ শনাক্ত হলে তাঁকে দ্রুত ওয়ার্ডে ভর্তি করে অক্সিজেন দেওয়া হয়। বেশির ভাগ সময়ই তাঁকে অক্সিজেন সাপোর্ট দিয়ে রাখতে হয়।

চিকিৎসক মো. আবদুল্লাহ জানান, রাত ১০টার দিকে হঠাৎ রহিমা খাতুন পেটে ব্যথা অনুভব করেন। সঙ্গে সঙ্গে গাইনি চিকিৎসক সুস্মিতা পাল ও মনোরমা সরকারকে জানানো হয়। তাঁরা দ্রুত হাসপাতালে চলে আসেন। এরই মধ্যে রহিমার ব্যথা তীব্র হলে তাঁকে অস্ত্রোপচার কক্ষে নেওয়ার প্রস্তুতি চলছিল। তাৎক্ষণিকভাবে দক্ষ নার্স ও আয়ারা ওয়ার্ডের ভেতর কাপড় দিয়ে ঘিরে তাঁর প্রসব করানোর চেষ্টা করেন। কয়েক মিনিটের মধ্যে পুত্রসন্তান প্রসব করেন রহিমা। তবে সন্তানটি মৃত ছিল।

কুষ্টিয়া করোনা হাসপাতালের পেয়িং ওয়ার্ডে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাসমিনা তাবাসসুম বলেন, প্রসূতির শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা শুক্রবার সকালে ৫৫ থেকে ৬০–এ ওঠানামা করছিল। কেন্দ্রীয় অক্সিজেন ও হাই ফ্লো নাজাল ক্যানুলায় অক্সিজেন দেওয়া হচ্ছিল। তাঁকে বাঁচানোর সর্বোচ্চ চেষ্টা করা হয়েছে।

হাসপাতালের মেডিসিন বিশেষজ্ঞ আক্রামুজ্জামান মিন্টু বলেন, করোনায় আক্রান্ত অন্তঃসত্ত্বাদের চিকিৎসা দেওয়া একটু কঠিন। রহিমা ৩২ সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন। অক্সিজেনসহ তাঁর বিভিন্ন ধরনের ওষুধ চলছিল। এতে সাধারণত বাচ্চাকে বাঁচানো সম্ভব হয় না। তারপরও চেষ্টা চালানো হয়েছিল। এ ছাড়া মায়ের উচ্চরক্তচাপ ছিল।

আরও পড়ুন:


বিট লবনের যত উপকার

ধানখেতে ৮ ফুট অজগর

সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের ম্যুরাল ভাঙচুরকারীদের গ্রেপ্তার দাবি হানিফের


 

 news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

জাতিসংঘে বাংলাদেশের সদস্যপদ অর্জনের স্মরণে ই-পোস্টার প্রকাশ

অনলাইন ডেস্ক

জাতিসংঘে বাংলাদেশের সদস্যপদ অর্জনের স্মরণে ই-পোস্টার প্রকাশ

জাতিসংঘে বাংলাদেশের সদস্যপদ অর্জনের স্মরণে ই-পোস্টার প্রকাশ করেছে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় কমিটি।

গণমাধ্যমে উদযাপন কমিটির পক্ষ থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সেখানে বলা হয়েছে: ১৭ সেপ্টেম্বর ১৯৭৪ তারিখে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অসামান্য কূটনৈতিক তৎপরতায় বাংলাদেশ জাতিসংঘের সদস্যপদ লাভ করেছিল। এই অর্জনকে স্মরণ করে এই দিনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় কমিটির পক্ষ হতে প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক, অনলাইন ও সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রচারের জন্য একটি ই-পোস্টার প্রকাশ করা হয়েছে।

 news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

নির্বাচন দেখতে রাশিয়ার পথে সিইসি

অনলাইন ডেস্ক

নির্বাচন দেখতে রাশিয়ার পথে সিইসি

রাশিয়ার জাতীয় নির্বাচন পর্যবেক্ষণে সাতদিনের সফরে রাশিয়া গেছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা। 

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সকাল সোয়া ১০টায় এমিরেটস এয়ারলাইনসের ইকে-৫৮৩ নম্বর ফ্লাইটে দেশটির উদ্দেশে ঢাকা ছাড়েন সিইসি। প্রধান নির্বাচন কমিশনারের সঙ্গে তার একান্ত সচিব আবুল কাশেম মোহাম্মদ মাজহারুল ইসলামও সফরে গেছেন। 

রাশিয়ার জাতীয় সংসদ রাশিয়ান ফেডারেল অ্যাসেম্বলির নিম্নকক্ষ ‘স্টেট দুমা’ এর ভোট পর্যবেক্ষণ করতে দেশটিতে সাতদিন থাকবেন সিইসি। স্টেট দুমা নির্বাচনে যন্ত্রে ভোটগ্রহণ করা হয়। তবে সেখানে বাংলাদেশের মতো ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহার করা হয় না। সেখানে কম্পিউটার নিয়ন্ত্রিত সিস্টেমে (অপটিক্যাল স্ক্যান ভোটিং মেশিন) ভোট হয়। ১৯৯৫ সালে প্রথম নিম্নকক্ষের নির্বাচনে এ যন্ত্রে ভোট নেওয়া হয়। ১৯৯৬ সালে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনেও এ যন্ত্র ব্যবহার করা হয়েছিল। ২০১৮ সালের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনেও ভোটিং মেশিন ব্যবহার করেছে রাশিয়া, তবে তা ৯ শতাংশ ভোট কেন্দ্রে। 

আরও পড়ুন


আশ্রয়ণ প্রকল্প: এটা তো দুর্নীতির জন্য হয়নি, এটা কারা করলো?

আগের স্ত্রীকে তালাক না দিয়েই মাহিকে বিয়ে করেছে রাকিব

আমরা কখনো জানতামও না যে এই সম্পদ আমাদেরই ছিলো

নাশকতার মামলায় নওগাঁর পৌর মেয়র সনিসহ বিএনপির ৩ নেতা কারাগারে


 

ইসি থেকে জানা গেছে, ১৭ থেকে ১৯ সেপ্টেম্বর রাশিয়ায় নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করবেন সিইসি। এরপর অন্যান্য কাজ সেরে  ২২ সেপ্টেম্বর দেশে ফিরবেন তিনি ।

 news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

কারওয়ান বাজার ও গুলশান-২ ঘিরে মহাপরিকল্পনা উত্তর সিটির

তালুকদার বিপ্লব

রাজধানীর কাওরান বাজার ও গুলশান-২ ঘিরে মহাপরিকল্পনা নিয়ে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। বহুতল বাণিজ্যিক ভবন নির্মাণে বাজারে বন্ড ছেড়ে টাকা তুলবে ডিএনসিসি। এ ব্যাপারে এরই মধ্যে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের সাথে সব প্রক্রিয়া চূড়ান্ত করতে কাজ করা হয়েছে। এই দুই মার্কেটের আধুনিকায়নে ছাড়া হবে প্রায় ৯ হাজার কোটি টাকার বন্ড। 

রাজধানীর গুলশান ২ নাম্বার ডিএনসিসি মার্কেট।প্রায় সোয়া তিন একর জমির ওপর অবস্থিত এই মার্কেট ভেঙ্গে বহুতল বানিজ্যিক ভবন নির্মানের পরিকল্পনা নিয়েছে উত্তর সিটি কপোরেশন। এখান ভবন নির্মানে যে অর্থ ব্যায় হবে তা পুজি বাজার থেকে সংগ্রহের সিদ্ধান্তে এ বছরই মিউনিসিপ্যাল বন্ড বাজারে নিয়ে আসছে বলে জানান ডিএনসিসি মেয়র আতিকুল ইসলাম।

একই সাথে প্রায় ২৪ বিঘা জমির ওপর ডিএনসিসির মালিকানাধীন কারওয়ান বাজার তিনটি মার্কেট ভেঙ্গে দক্ষিন এশিয়ার সর্ববৃহত বহুতল বানিঝ্যিক ভবন নির্মানের পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে ডিএনসিসি। 

ঢাকা উত্তরের মেয়র জানান, কাওরান বাজার প্রকল্পের থ্রিডি প্রসপেক্টাস ডিজাইন তৈরি শেষ পর্যায়ে। 

জানা যায় প্রাকৃতিক পরিবেশ ঠিক রেখে কাওরান বাজারে তৈরি করা হবে আধুনিক বানিজ্যিক কেন্দ্র। মিডিয়া সেন্টার। থাকবে বিশাল পাকিং ব্যবস্থা। সংস্কৃতি বিকাশ কেন্দ্র।অত্যাধুনিক অপেরা হাউজ। বিদেশি রাষ্ট্রিয় অতিথি ভবন সহ  সু-বিশাল কনভেনশন সেন্টার এবং নাগরিক মিলনায়তন কেন্দ্র সহ নানা স্থাপনা।

আরও পড়ুন


আশ্রয়ণ প্রকল্প: এটা তো দুর্নীতির জন্য হয়নি, এটা কারা করলো?

আগের স্ত্রীকে তালাক না দিয়েই মাহিকে বিয়ে করেছে রাকিব

আমরা কখনো জানতামও না যে এই সম্পদ আমাদেরই ছিলো

নাশকতার মামলায় নওগাঁর পৌর মেয়র সনিসহ বিএনপির ৩ নেতা কারাগারে


 

উত্তর সিটি মেয়র জানান, প্রাথমিকভাবে গুলশান ২ বহুতল বাণিজ্যিক ভবন নিমানে দুই হাজার কোটি টাকা এবং কারওয়ান বাজার এলাকায় বাণিজ্যিক এবং নাগরিক কেন্দ্র নিমানে প্রায় ৭ হাজার কোটি টাকা বন্ড বিক্রি থেকে উত্তোলন করা হবে।

এদিকে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের চেয়ারম্যান শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম।জানান, গুলশান দুই এবং কারওরান বাজার প্রকল্পে বন্ড ইস্যুর বিষয় ইত্যেমধ্যে বিএসইসি সাথে আলোচনা করেছে ডিএনসিসি। চলছে চূড়ান্ত প্রস্তাব তৈরির কাজ।

বিএসইসি চেয়ারম্যাম জানান বন্ড এর উদ্যেগ সফল হলে দেশে বাণিজ্যিক অবকাঠামো প্রকল্পে অথায়ন সংকটের একটি স্থায়ী সমাধান হবে। news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

আজও ৫১ মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

আজও ৫১ মৃত্যু

বিশ্বব্যাপী তাণ্ডব চালানো ভাইরাস করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় ৫১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৭ হাজার ১০৯ জনে।

নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৮৬২ জন। মোট শনাক্ত দাঁড়িয়েছে ১৫ লাখ ৩৮ হাজার ২০৩ জনে।

আরও পড়ুন: 


রাসেলের বাসায় র‌্যাবের অভিযান চলছে

স্ত্রী হত্যার অভিযোগ, স্বামী-শ্বশুর পলাতক

চীনে ১০ কি.মি. গভীরতার শক্তিশালী ভূমিকম্পের হানা

দুবলার চর থেকে খুলনা কাঁকড়া পরিবহনে বাধা নেই: হাইকোর্ট

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনাবিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

এর আগে বুধবার ৫১, মঙ্গলবার ৩৫, সোমবার ৪১, রোববার ৫১, শনিবার ৪৮ এবং শুক্রবার ৩৮ জনের মৃত্যু হয়।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

রোববার থেকে প্রতিদিন ৪ ঘণ্টা সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধ থাকবে

নিজস্ব প্রতিবেদক

রোববার থেকে প্রতিদিন ৪ ঘণ্টা সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধ থাকবে

প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত চার ঘণ্টা সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধ থাকবে। আগামী রোববার থেকে এ সিদ্ধান্ত কার্যকর হবে।

বিদ্যুৎকেন্দ্রে গ্যাস সরবরাহ বাড়াতে সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধের এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) পেট্রোবাংলার উপ-মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তারিকুল ইসলাম খান এই তথ্য জানিয়েছেন।

আগের সিদ্ধান্ত ছিল, প্রতিদিন বিকাল ৫টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত মোট ছয় ঘণ্টা সিএনজি স্টেশন বন্ধ রাখার। কিন্তু সিএনজি স্টেশন মালিকদের আপত্তির মুখে সেই সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসতে হলো।

এ সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে গ্যাস বিতরণ কোম্পানির ভিজিল্যান্স টিম নিয়মিত মনিটরিং করবে। সিদ্ধান্ত অমান্যকারী সংশ্লিষ্ট সিএনজি স্টেশন-এর বিরুদ্ধে বাংলাদেশ গ্যাস আইন, ২০১০ অনুযায়ী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

জনসাধারণের এ সাময়িক অসুবিধার জন্য কর্তৃপক্ষ আন্তরিকভাবে দুঃখ প্রকাশ করেছে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর