চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি
চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হুশিয়ারি

অনলাইন ডেস্ক

করোনাভাইরাসের ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টে আবারও চীন ও অস্ট্রেলিয়ায় আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে মিউটেশনের মাধ্যমে আরও ভয়ংকর হয়ে ওঠার আগেই একে দমন করতে এই দুই দেশকে আহ্বান জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

গত কয়েকমাস করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে থাকলেও সম্প্রতি আবারও করোনাভাইরাসে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বাড়তে শুরু করেছে দেশটিতে।

চীনের নানজিং শহরে করোনার ডেল্টা ক্লাস্টার সংক্রমণ থেকে আক্রান্ত অন্তত ২০০ জনকে শনাক্ত করা হয়।

যার ভেতরে একটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ৯ জন পরিচ্ছন্নতাকর্মীও রয়েছে।

শনিবার নতুন করে চীনের আরও দুটি এলাকা- ফুজিয়ান প্রদেশ ও মেগাসিটি চংকুইংয়ে করোনার ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করা হয়। এ নিয়ে চীনের পাঁচটি প্রদেশে আবারও নতুন করোনা শনাক্ত করা হয়েছে।

নতুন করে করোনা শনাক্ত হওয়া পাঁচটি এলাকায় ইতিমধ্যেই লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে।

এদিকে, ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়ায় অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ড ও ব্রিসবেন লকডাউনের আওতায় আনা হয়েছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) ছয়টি অঞ্চলের মধ্যে পাঁচটি অঞ্চলে গত চার সপ্তাহে সংক্রমণ গড়ে ৮০ শতাংশ বেড়েছে। ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের কারণে এই সংক্রমণ লাফিয়ে দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে।

আরও পড়ুন:

বাংলাদেশসহ চার দেশে দুবাইগামী ফ্লাইট বন্ধ ৭ আগস্ট পর্যন্ত

স্বামীর পর্নকাণ্ড: মানহানির মামলা নিয়ে শিল্পাকে আদালতের ভর্ৎসনা

হেলেনাকে সম্মানের সঙ্গে ছাড়তে বললেন সেফুদা

সেনাবাহিনীতে বিভিন্ন বেসামরিক পদে ছয় শতাধিক নিয়োগ


ডব্লিউএইচও’র জরুরি বিভাগের প্রধান মাইকেল রায়ান এক সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন, ‘এটির আরও বিপজ্জনক মিউটেশনের আগে এখন আমাদের আরও জরুরি পদক্ষেপ নিতে হবে। ’

রায়ান জোর দিয়ে বলেন, ‘গেম প্ল্যান’ হিসেবে শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা, মাস্ক পরা, হাত ধোয়া এবং টিকাদান এখনো কার্যকর উপায়।

সূত্রঃ দ্য গার্ডিয়ান

news24bd.tv/ নকিব

;