প্রথম দিনেই উধাও স্বাস্থ্যবিধি
প্রথম দিনেই উধাও স্বাস্থ্যবিধি

প্রথম দিনেই উধাও স্বাস্থ্যবিধি

Other

অনেকটা ঝুঁকি নিয়েই খুলে দেয়া হলো সব কিছু। ট্রেন ও লঞ্চে কোনো বিধিনিষেধ না থাকলেও বাস চলাচল করার কথা মোট সংখ্যার অর্ধেক। কিন্তু সেই নির্দেশনা মনিটরিংয়ে কোথাও কোনো পদক্ষেপ দেখা যায়নি। নগর পরিবহনগুলো যেভাবে পারছে যাত্রী নিচ্ছে।

এতে সঠিক ভাড়া দিয়েও সেবা পাচ্ছেন না যাত্রীরা। ভিড় রয়েছে ফেরিতেও। প্রায় সব স্থানেই স্বাস্থ্য বিধি উপেক্ষিত।  

শিথিল লকডাউন। সকালে তাই সময় অনুযায়ি বিভিন্ন স্টেশন থেকে গন্তব্যের উদ্দেশ্যে ছেড়েছে ট্রেন। এবার টিকিট নিয়েও খুব বেশি অভিযোগ শোনা যায়নি। স্বাস্থ্যবিধি মানা হয়েছে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে।

১৯ দিন পর চট্টগ্রামের রাস্তায় অর্ধেক সংখ্যক গণপরিবহন। এই শর্ত মানতে গিয়ে বাসগুলোতে অতিরিক্ত যাত্রী নেয়া হয়। এতে আগের মতো একই ভাড়ায় ভোগান্তি মাথায় নিয়ে গন্তব্যে পৌঁছান যাত্রীরা। এ নিয়ে অনেকের মাঝে ক্ষোভ দেখা গেছে। এছাড়া মুরাদপুর, নিউমার্কেট, টাইগার পাসসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে যানজট তৈরি হয়।

রাজশাহীর দুটি বাস টার্মিনাল থেকে সকালে বিভিন্ন রুটে বেশকিছু বাস ছেড়ে যায়। শতভাগ যাত্রী নিয়ে চলাচল করা এসব বাসে স্বাস্থ্যবিধি মানা হয়নি পুরোপুরি। এ নিয়ে প্রশাসনের কোনো নজরদারিও দেখা যায়নি।

যশোর থেকে ১৮টি রুটে বাস চালু হওয়ায় খুশি মালিক-শ্রমিকরা। তবে অর্ধেক পরিবহণ চলাচলের সিদ্ধান্তে কিছুটা হতাশা দেখা গেছে। এতে আর্থিক ক্ষতি কতোটা পোষানো যাবে তা নিয়েও দুশ্চিন্তা রয়েছে।

লকডাউন শিথিল হওয়ায় মাদারীপুরের বাংলাবাজার ফেরি ঘাটে ভিড় করেন ঢাকামুখী যাত্রীরা। এদের অনেকে ফেরিতে নদী পার হন। ভারি যানবাহন পারাপারে নিষেধাজ্ঞা থাকায় ঘাটে অতিরিক্ত পণ্য ও যাত্রীবাহী পরিবহনের দীর্ঘ লাইন তৈরি হয়।

তবে লঞ্চ চলাচল শুরু হওয়ায় বেশিরভাগ যাত্রী নদী পার হন লঞ্চে। তবে সেখানে স্বাস্থ্যবিধির কোনো বালাই নেই। বিআইডব্লিউটিসি কর্মকর্তারা জানান, বাংলাবাজার-শিমুলিয়া রুটে এখন ৫টি ফেরি চলাচল করছে।

লঞ্চ চালু হওয়ায় বুধবার সকাল থেকে চাঁদপুরের ঘাটে ভিড় করেন যাত্রীরা। যাত্রী চাপ সামাল দিতে বিভিন্ন রুটে অতিরিক্ত লঞ্চের ব্যবস্থা করে বিআইডব্লিউটিসি। যাত্রী বেশি থাকায় ঢাকার উদ্দেশ্যে সময়ের আগেই ছেড়ে যায় বেশ কিছু লঞ্চ।


আরও পড়ুন

আরও ৬ কোটি টিকা কেনার অনুমোদন

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ

আবারও বাড়ছে ভারতে করোনা সংক্রমণ

জিমিকে ফের ৫দিনের রিমান্ডের আবেদন


news24bd.tv/এমি-জান্নাত