ইলিয়াস কীভাবে পরীমনি'র ভিডিওটি পেলেন?

অনলাইন ডেস্ক

ইলিয়াস কীভাবে পরীমনি'র ভিডিওটি পেলেন?

আলোচিত চিত্রনায়িকা পরীমনি ও সদ্য বদলিকৃত ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগের (ডিবি) অতিরিক্ত উপকমিশনার (এডিসি) গোলাম সাকলায়েন শিথিলের একটি গোপন ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে গেছে। 

সাবেক সাংবাদিক ও বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী ইলিয়াস হোসেনের ইউটিউব চ্যানেলে গত মঙ্গলবার (১০ আগস্ট) সন্ধ্যায় পরীমনি ও সাকলায়েনের ভিডিওটিআপলোড করা হয়।

ফাঁস হওয়া ভিডিওটির ক্যাপশনে তিনি লিখেছেন, ‘পরীমনি ও পুলিশ কর্মকর্তা সাকলায়েনের গোপন ভিডিও! সাকলায়েন পরীমনির সঙ্গে তার অবৈধ সম্পর্কের কথা অস্বীকার করলেও তাদের গোপন একটি ভিডিও আমাদের কাছে পাঠান নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক আরেকজন পুলিশ কর্মকর্তা।’

প্রশ্ন উঠেছে যুক্তরাষ্ট্রে থাকা একজন প্রবাসী ও সাবেক সাংবাদিক কীভাবে সংবেদনশীল এই ভিডিও পেলেন? কে বা কারা তাকে ভিডিওটি পাঠিয়েছে—তা নিয়ে চলছে জোর আলোচনা। তবে সাংবাদিক ইলিয়াস ভিডিওটি ‘একজন পুলিশ কর্মকর্তা’র কাছ থেকে সংগ্রহ করেছেন বলে দাবি করেছেন ক্যাপশনে।

জানা গেছে, ফাঁস হওয়া ভিডিওটি ঈদের পরের। এডিসি সাকলায়েনের বাসায় ধারণ করা এটি। বাসায় পরীমনি, তার কস্টিউম ডিজাইনার জিমি এবং তার গাড়ি চালক উপস্থিত ছিলেন। ভিডিওটি জিমি ধারণ করেছেন। বর্তমানে ডিবির হেফাজতে রিমান্ডে রয়েছেন জিমি। প্রশ্ন উঠেছে, জিমি বর্তমানে ডিবির রিমান্ডে আছেন। তাহলে সাংবাদিক ইলিয়াস কীভাবে ভিডিওটি পেলেন? কে পাঠিয়েছে?

এ বিষয়ে ডিবি সূত্রের দাবি, পুলিশের কেউ এই ভিডিও ছড়াতে পারে না। তাছাড়া এই ভিডিও পুলিশের হাতে আসার কথা নয়। ভিডিওটি প্রবাসী সাংবাদিককে যিনি পাঠিয়েছেন, তিনি দুই পক্ষের পরিচিত কেউ। ব্যক্তিস্বার্থ হাসিলের লক্ষ্যেই ভিডিওটি পাঠানো হয়েছে।

তবে সূত্রের ভাষ্য, পুলিশ কর্মকর্তা সাকলায়েনের বাসায় পরীমনি যে গিয়েছিলেন এবং সিসি ক্যামেরার যে ফুটেজ ফাঁস হয়েছে, সেটিও কোনো পুলিশ সদস্যের মাধ্যমেই হতে পারে। কারণ সাকলায়েন রাজারবাগ পুলিশ লাইনসের ভিতরে একটি ভবনে থাকতেন। সেই ভবনের পুরো দায়িত্ব পুলিশের হাতেই।

পুলিশ সদর দপ্তরের এআইজি (মিডিয়া) সোহেল রানা গণমাধ্যমকে বলেন, কোনো কর্মকর্তা যদি আচরণবিধি বা আইনলঙ্ঘন করেন, তাকে তার দায় নিতে হবে। পরীমনিকে নিয়ে ওই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ তদন্তের জন্য ইতোমধ্যে একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

NEWS24.TV / কামরুল

পরবর্তী খবর

নিজের প্রথম ছবির গোপন তথ্য ফাঁস করলেন বিপাশা

অনলাইন ডেস্ক

নিজের প্রথম ছবির গোপন তথ্য ফাঁস করলেন বিপাশা

২০ বছর আগে বলিউডে অভিষেক ঘটে বিপাশা বসুর। তার চলচ্চিত্র অঙ্গনের ২০ বছর পূর্তিতে বিশেষ সাক্ষাৎকার নিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া। আর সেখানেই নিজের সেসময়ের চাপা কষ্ট প্রকাশ করলেন বিপাশা।

গায়ের রঙ 'ফর্সা' না হওয়ায় তাকে অনেক কথা শুনতে হয়েছে বলে জানিয়েছে ৪২ বছর বয়সী এই নায়িকা। তিনি আরও জানান, বলিউডে অভিষেকের পর গায়ের রঙ নিয়ে লোকজনের অহেতুক পরামর্শ শুনেছেন, নানাভাবেই হেনস্তার শিকার হয়েছেন বলে জানান বিপাশা। একটা সময়ে তাকে সন্ধ্যার পর ঘরের বাইরেও যেতে দেওয়া হতো না। এতে নাকি তিনি আরও কালো হয়ে যাবেন!

বিপাশা বলেন, এটা তখনকার কথা, যখন আমি আমার প্রথম হেয়ার-স্টাইলিস্ট কৌশলের সঙ্গে দেখা করি। সেও আমাকে নায়িকা হওয়ার ‘নিয়ম’ শিখিয়েছিল। সে বলল, জনসম্মুখে না গিয়ে আমি যেন আড়ালে থাকি।’

প্রথম ছবি আজনবি'র শুটিংয়ের ঘটনা মনে করে তিনি বলেন, আমি আইস টি খাচ্ছিলাম।  এ সময় আমার হেয়ারস্টাইলিস্ট এসে বলে, ‘সবাই ভাবছেন যে আপনি হুইস্কি পান করছেন।’ তারপর সে আমাকে পরামর্শ দেয়, আমি যেন চা বা জুস কাপে নিয়ে খাই। আরেক দিন একটা ব্যাকলেস ব্লাউজ পরে থাকায় আমাকে বলা হয়, ‘অভিনেত্রীরা কেবল পর্দায় এমন পোশাক পরেন, বাস্তবে না।’

রও পড়ুন:

সব ফোনের একই চার্জার তৈরির প্রস্তাব, অ্যাপলের আপত্তি

বিয়ের আগেই পাত্রের মাকে নিয়ে পালিয়ে গেল পাত্রীর বাবা!

শরীর আর আগের মতো ছিলো না, বিচ্ছেদের কারণ জানিয়ে রোশান

বঙ্গোপসাগর থেকে ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় 'গুলাব'


শুরুর দিকে এসব পরামর্শ চুপচাপ মেনে নিলেও পরে এসব স্রেফ ভণ্ডামি মনে হয় তার কাছে। তিনি যেরকম না, বা করছেন না তা কেন দেখাতে হবে! আর আপনি স্বাভাবিক জীবনে যা পরতে পারেন না, তা কেন পর্দায় পরবেন!

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

বাংলাদেশের মিডিয়াকর্মীদের প্রতি কবীর সুমনের অনুরোধ (ভিডিও)

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশের মিডিয়াকর্মীদের প্রতি কবীর সুমনের অনুরোধ (ভিডিও)

উপমহাদেশের সঙ্গীতের জীবন্ত কিংবদন্তি বলা হয় কবীর সুমনকে। তার গানে একের পর এক উঠে এসেছে সমাজের শোষণের কথা, নিপড়ীত মানুষের কষ্ট। ঢাকা ও বাংলাদেশ নিয়ে কলকাতার এই গায়কের গানের সংখ্যা একেবারেই কম নয়। এমনকি তার কথা-সুরে ঢাকাই শিল্পীদের কণ্ঠেও উঠেছে অনেক গান।

এবার নিজের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে মিডিয়াকর্মীদের অনুরোধ জানিয়ে একটি পোস্ট ও ভিডিও বার্তা দিয়েছেন কবীর সুমন। সেই বার্তাতে বিশেষ করে বাংলাদেশি মিডিয়াকর্মীদের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হয়েছে।

কবীর সুমন ফেসবিুকে লিখেছেন, বাঙালি মিডিয়াকর্মীদের প্রতি সনির্বন্ধ অনুরোধ - আমার বাবা মা, আমার গুরুদের দোহাই, বাংলা ভাষা বাংলা গানের দোহাই আমাকে জীবনমুখী গায়ক বলবেন না। বিশেষ করে বাংলাদেশের মিডিয়াকর্মীদের প্রতি এই সনির্বন্ধ অনুরোধ। তাঁরা প্রায় সব সময় আমার নামের আগে এই কথা প্রয়োগ করে থাকেন।

তিনি আরও লিখেন, মহান শিল্পী শ্রীযুক্ত নচিকেতা চক্রবর্তীর গানের ক্যাসেটে ঐ কথাটি ছিল, থাকত : জীবনমুখী বাংলা গান বা গান। আমার গানের কোনও এলবামে ঐ কথাটি ছিল না। থাকে না। দয়া করে আমার নামের আগে ঐ কথাগুলি লিখবেন না। দয়া করে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

ফের বিতর্কে জড়িয়ে পড়লেন কপিল শর্মা

অনলাইন ডেস্ক

ফের বিতর্কে জড়িয়ে পড়লেন কপিল শর্মা

ভারতের জনপ্রিয় স্ট্যান্ডআপ কমেডিয়ান কপিল শর্মা। মাঝে মধ্যেই জন্ম দেন নতুন কোন বিতর্কের। বলতে গেলে বিতর্ক যেন পিছু ছাড়ছে না কপিলের। জনপ্রিয় কমেডিয়ান শো ‘দ্য কপিল শর্মা’র নতুন সিজনের শুরুতেই আবারও বিতর্ক শুরু হয়েছে।

কপিল শর্মা সঞ্চালিত এই শো’টির একটি পর্বে মদ্যপান করার দৃশ্য দেখানো হয়। আর মঞ্চে আদালতের আবহ তৈরি করে এই মদ্যপানের কারণে বিতর্ক শুরু হয়েছে। আদালত অবমাননার অভিযোগে এ অনুষ্ঠানের বিরুদ্ধে মধ্যপ্রদেশের শিবপুরীর জেলা আদালতে একটি এফআইআর দায়ের করেছেন এক আইনজীবী।

এফআইআর দায়ের করা ওই আইনজীবী বলেন, ‘দ্য কপিল শর্মা শো’ অনুষ্ঠানটি বেশ অগোছালো। এখানে নারীদের নিয়েও অশ্লীল মন্তব্য করা হয়। একটি পর্বে আদালতের দৃশ্যে অভিনেতাদের মদ্যপান করতে দেখা যায়। এ ধরনের ক্রিয়াকলাপ বন্ধ হওয়া উচিত।

আরও পড়ুন


শনিবার রাজধানীর যে সব মার্কেট ও দর্শনীয় স্থান বন্ধ

করোনা মোকাবিলায় জাতিসংঘে ৬ প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর

জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে প্রধানমন্ত্রীর ভাষণের পূর্ণ বিবরণ

সূরা বাকারা: আয়াত ৮৯-৯৩, মহানবী (সা.) কে ইহুদীদের অস্বীকার


বিতর্কে উঠে আসা পর্বটি ২০২০ সালের ১৯ জানুয়ারি সম্প্রচারিত হয়। এরপর আবার চলতি বছরের ১৪ এপ্রিল সেই পর্বটি টেলিভিশনে দেখানো হয়। এই ধরনের দৃশ্যের মাধ্যমে আদালতকে অসম্মান করা হয়েছে বলে মনে করছেন সেই আইনজীবী। ১ অক্টোবর এ মামলার শুনানি হবে।

‘দ্য কপিল শর্মা শো’-তে কপিল ছাড়াও সুমনা চক্রবর্তী, কিক্কু শারদা, ভারতী সিংহ, অর্চনা পূরণ সিংহের মতো তারকাদের দেখা যায়। বলিউডের বড় বড় সব অভিনেতা আসেন কপিলের অতিথি হয়ে। কিন্তু সাত মাস পর আগস্ট থেকে অনুষ্ঠান শুরু হতেই আইনি বিপাকে পড়লেন নির্মাতারা। সূত্র: আনন্দবাজার 

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

যে কারণে ২৫ বছর পর চুল কাটলেন অপরাজিতা!

অনলাইন ডেস্ক

যে কারণে ২৫ বছর পর চুল কাটলেন অপরাজিতা!

ওপার বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী অপরাজিতা আঢ্য। ছোট পর্দার এই অভিনেত্রী 'প্রাক্তন' সিনেমায় সাবলীল অভিনয়ের কারণে দর্শকদের মন কেড়েছেন। সম্প্রতি এই অভিনেত্রী ইনস্টাগ্রামে হাসিমুখে তোলা একটি ছবি পোস্ট করেছেন। 

সেখানে দেখা যাচ্ছে, তার কাঁধ ছোঁয়া ঢেউ খেলানো চুল। লিখেছেন, '২৫ বছর পর চুল কাটলাম।' 

কিন্তু এত বছর পর কেন চুল কাটতে হলো তাকে? অপরাজিতার ভাষ্য, 'কোভিডের জন্যই চুল কেটে ফেলতে হলো। সেই সময় আমার প্রচুর চুল উঠেছিল। তার পর আবার নতুন চুল গজাচ্ছে। সেই চুলগুলো বাড়তে সময় লাগবে। এই দিকে আগের চুলগুলো লম্বা। দুটো সমান হতে তো সময় লাগবে। সেই সমস্যার সমাধান করতেই চুল কেটেছি।'

আরও পড়ুন


আমাদের ফোন পেগাসাসের মাধ্যমে ট্যাপ করা হয়েছে

‘শাহীন আনাম ও মাহফুজ আনাম হিন্দুদের ঐক্যে চিড় ধরানোর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত’

পরিবেশ রক্ষায় ঐক্যবদ্ধতা পৃথিবীকে বাঁচাবে : তথ্যমন্ত্রী


তবে চুল কাটা নিয়ে মন খারাপ নেই অপরাজিতার। তিনি বললেন, 'প্রথমে কেমন একটু লাগছিলো। কিন্তু যিনি আমার চুল কেটেছেন, খুব সাহস করে কাঁচি চালিয়েছেন। আমার খারাপ লাগছে না। আমি জানি, আমার চুল আবার বড় হয়ে যাবে।'

প্রসঙ্গত, গেলো বছর করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন অপরাজিতা। শুধু তিনি নন, শাশুড়িসহ তার পরিবারের একাধিক সদস্য আক্রান্ত হয়েছিলেন।

news24bd.tv রিমু  

পরবর্তী খবর

আমি অবশ্যই অভিনয় করবো : লাইভে শাবনূর

অনলাইন ডেস্ক

আমি অবশ্যই অভিনয় করবো : লাইভে শাবনূর

ঢাকাই ছবির অন্যতম জনপ্রিয় চিত্রনায়িকা শাবনূর। বাংলা চলচ্চিত্রের তার অনেক সিনেমা আজও বাংলা সিনেমা প্রেমিদের মনে দোলা দিয়ে যায়।  কিন্তু অনেকদিন ধরে অভিনয় থেকে ধুরে আছেন। বর্তমানে ছেলে ও ভাইবোনের সঙ্গে বসবাস করেছেন অস্ট্রেলিয়ায়।

এদিকে সম্প্রতি ইউটিউব চ্যানেল খুলেছেন তিনি। সেখানে সময় দিচ্ছেন তিনি। এদিকে ফেসবুক আইডি খুলেছেন এই অভিনেত্রী। শুক্রবার নিজের ফেসবুক আইডি থেকে লাইভে এসেছিলেন শাবনুর।  ফেসবুকেও এটাই তার প্রথম লাইভ। লাইভে তার সঙ্গে ছিল ইনাইয়া, যাকে নিজের টিমমেট বলে পরিচয় করিয়ে দেন শাবনূর।

লাইভে শাবনূর বলেন, আমরা ব্যক্তিগতভাবে সবাই সুখে-দুখে দিন কাটাই। আমি মানুষকে বিনোদন দিতে চাই। এখনো কাজ করতে চাই। আমাকে নিয়ে যদি তেমন গল্পের সিনেমা কেউ বানাতে চান, আমার মতো করে যদি গল্পটা বলতে চান, তাহলে আমি অবশ্যই অভিনয় করবো।

ভক্তদের ধন্যবাদ জানিয়ে শাবনূর বলেন, আপনাদের ধন্যবাদ। অনেকে বলেছেন, আমার নামে ফেসবুকে অনেকে ফেক আইডি খুলেছে, আপনারা আসল শাবনূরকে চিনতে পারেন না। এবার থেকে সব স্পষ্ট হয়ে গেল। বিভ্রান্তির আর কোনো সুযোগ নেই। এটা আমার আসল আইডি। এখানে এলেই আপনাদের প্রিয় শাবনূরকে পেয়ে যাবেন।

তিনি বলেন, ‘আমি খুবই এক্সাইটেড। সবার সঙ্গে যোগাযোগ করতে পেরে খুবই ভালো লাগছে। এখন থেকে আমি আপনাদের সঙ্গেই থাকবো।’


সিলেটে বাসার ছাদ থেকে আপন দুই বোনের মরদেহ উদ্ধার

ক্ষমতায় থাকছেন ট্রুডো, তবে গঠন করতে হবে সংখ্যালঘু সরকার

মিডিয়া ভুয়া খবর ছড়িয়েছে: বাপ্পী লাহিড়ি


শাবনুর বলেন,এখন থেকে প্রতি শুক্রবার ফেসবুক লাইভে আসার চেষ্টা করবেন। এছাড়া মজার মজার ভিডিও শেয়ার করে ভক্তদের আনন্দ দেয়ার পরিকল্পনাও রয়েছে তার

সর্বশেষ ২০১৫ সালে ‘পাগল মানুষ’ সিনেমায় দেখা গেছে শাবনূরকে। এরপর আর কোনো সিনেমায় দেখা মেলেনি দর্শকপ্রিয় এ তারকাকে। সিনেমা ছেড়ে দূরে থাকলেও এ অভিনেত্রী জনপ্রিয়তায় ভাটা পড়েনি। তাই ভক্তদের কাছাকাছি থাকতে স্যোশাল মিডিয়ায় সরব হয়েছেন এ অভিনেত্রী।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর