রাজশাহী মহানগর যুবলীগে হঠাৎ উত্তেজনা
Breaking News

রাজশাহী মহানগর যুবলীগে হঠাৎ উত্তেজনা

Other

রাজশাহী মহানগর যুবলীগে হঠাৎ করেই শুরু হয়েছে উত্তেজনা। সম্মেলনের সাড়ে ৫ বছর পর কমিটির দুই নেতাকে নিয়ে শুরু হয়েছে নতুন বিতর্ক। একজন অনুমোদিত কমিটিতে না থেকেও পদ ব্যবহার করছেন। আরেকজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ, শিবির কানেকশনের।

এনিয়ে বিব্রত খোদ দলের নেতারা।  

তৌরিদ আল মাসুদ রনি, দীর্ঘদিন থেকে নিজেকে পরিচয় দেন নগর যুবলীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক। যদিও অনুমোদিত কমিটির তালিকায় তার নাম নেই। নগর যুবলীগের দফতর সম্পাদক মাহমুদ হাসান খান চৌধুরী ইতু। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, ছাত্রশিবিরকে নিয়মিত চাঁদা দেন।  

রাজশাহী মহানগর যুবলীগের সম্মেলন শিগগিরই হতে পারে, এমন আভাস থেকে চলছে একে অপরের বিরুদ্ধে প্রচারণা। এই বিতর্ক উসকে দিয়েছেন নগর যুবলীগের দুই শীর্ষ নেতা।

 নগর যুবলীগের সভাপতি রমজান আলীর বক্তব্য মিথ্যা দাবি করে আইনগত পদক্ষেপ নেয়ার কথা বলছেন, তৌরিদ আল মাসুদ রনি। আর দফতর সম্পাদক মাহমুদ হাসান খান চৌধুরী ইতুর দাবি, তার বিরুদ্ধে মিথ্যা প্রচারণা চালাচ্ছেন পদপ্রত্যাশিরা।

আরও পড়ুন:

যতক্ষণ না পুলিশ আসবে, মিডিয়া আসবে লাইভ চলবে: পরীমনি

আবারও মুখোমুখি ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা

একসঙ্গে দুই ছেলে ও দুই মেয়ের জন্ম


 

 নগর যুবলীগ নেতারা বলছেন, সম্মেলনের ৫ বছরের বেশি সময় পর এমন বিতর্ক তোলার পেছনে কারো উদ্দেশ্য আছে। আর নগর আওয়ামী লীগ নেতা বলছেন, যুবলীগ নেতাদের কাদা ছোড়াছুঁড়ি বন্ধ করতে উদ্যোগ নেয়া হবে।

 ২০১৬ সালে নগর যুবলীগের সম্মেলনে রমজান আলী সভাপতি ও মোশাররফ হোসেন বাচ্চু সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। ২০১৭ সালে ১০১ সদস্যের কমিটি অনুমোদন দেয় কেন্দ্র।

news24bd.tv/আলী

;