‘আমরা হব তালিবান, বাংলা হবে আফগান’ এ স্লোগান কম শুনিনি
‘আমরা হব তালিবান, বাংলা হবে আফগান’ এ স্লোগান কম শুনিনি

‘আমরা হব তালিবান, বাংলা হবে আফগান’ এ স্লোগান কম শুনিনি

Other

কাবুলের মসনদ ছেড়ে এক গনির পলায়ন এবং আরেক গনির দখলের সঙ্গে আমাদের গনি মিয়া দ্যা ফার্মারের সঙ্গে কোনো সম্পর্ক নেই। পদত্যাগ করেই আফগানিস্তান ছাড়়লেন আশরাফ গনি। সর্বসময় ক্ষমতার অধিকারী এখন তালেবান প্রধান মোল্লা আবদুল গনি বরাদর। তবু আমার ওই গনি মিয়া নামে কৃষকের গল্পটাই মনে পড়ছে।

 

গনি মিয়া একজন দরিদ্র কৃষক— ছোটবেলায় ইংরেজি গ্রামার বইয়ে পড়েছি আমরা। গনি মিয়ার নিজের কোনো জমিজিরাত ছিল না। অন্যের জমিতে বর্গা চাষ করেই কষ্টে-সৃষ্টে দিন কাটত তাঁর। কেন গনি মিয়ার কথা মনে পড়ছে, আমি কী আতঙ্কবোধ করছি? হয়তো। নগর পুড়িলে তো দেবালয় এড়ায় না, তালেবানি আঁচ আমাদের এখানে তো নেহায়েত কম উত্তাপ ছড়ায় না। ‘আমরা হবো তালিবান, বাংলা হবে আফগান’— এমন স্লোগান তো কম শুনিনি।

শুনেছি এবারও কেউ কেউ তালেবানদের হয়ে, তালেবানদের সঙ্গে যুদ্ধ করতে আফগানিস্তানে গেছেন, যাওয়ার চেষ্টা করে ধরাও পড়েছেন কেউ কেউ। মনে হচ্ছে, ‘নাগিনীরা চারিদিকে ফেলিতেছে বিষাক্ত নিশ্বাস। ’

বাংলাদেশ থেকে আফগানিস্তানের দূরত্ব খুব বেশি নয়। কাবুলিওয়ালারা এক সময় বাংলার পথে-প্রান্তরে ঘুরে বেড়াত। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের আবেগঘন একটি গল্পও ছোটবেলাতেই পড়েছি। একটু বড় হয়ে পড়েছি ‘দেশে-বিদেশে’, যা ১৯২৭ থেকে ১৯২৯ সাল পর্যন্ত আফগানিস্তান ভ্রমণের ওপর লিখেছিলেন সৈয়দ মুজতবা আলী। আফগান তো এভাবেই আমার শৈশবের স্মৃতির অংশ হয়ে আছে। তাই তালেবানি আফগান আমাকে শঙ্কিত করছে।

আরও পড়ুন:


তালেবানের কাছে ক্ষমা চাইতে সেনা গর্ভনর দপ্তরে হাজারো আফগান সেনা

গনিকে হঠিয়ে আফগানিস্তানের ‘প্রেসিডেন্ট হচ্ছেন’ আরেক গনি

নারীর অধিকার ও সংবাদমাধ্যমকে সম্মানের প্রতিশ্রুতি দিল তালেবানরা

তালেবানদের ব্যাপারে পোস্টে হাহা রিঅ্যাক্টকারীরা কিন্তু বাঙালি


news24bd.tv তৌহিদ

সম্পর্কিত খবর