জাল সনদ তৈরি চক্রের চার সদস্য গ্রেপ্তার
জাল সনদ তৈরি চক্রের চার সদস্য গ্রেপ্তার

জাল সনদ তৈরি চক্রের চার সদস্য গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক

ডিবি পুলিশ জাল সনদ তৈরি চক্রের চার সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে। তাদের মধ্যে দালাল ও শিক্ষাবোর্ডের নিম্ন শ্রেণির এক কর্মকর্তাও আছে।

শনিবার দুপুরে ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে এ বিষয়ে সংবাদ সম্মেলন করা হয়। এ সময় ডিবির অতিরিক্ত কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তার বলেন, মোট চারজন নকল সার্টিফিকেট তৈরির চক্রকে ধরা হয়েছে।

একজন ভিকটিমের অভিযোগের ভিক্তিতে এই চক্রকে ধরা হয়। চক্রটি সার্টিফিকেট এর নাম ও ঠিকানা পরিবর্তন করে ফেলে।

যেমন- ভুক্তভোগী নূর তাবাসস্সুম এর মূল সার্টিফিকেট পরিবর্তে করে, বোর্ড এর কোথাও নূর তাবাস্সুম এর নাম নাই, ঠিকানা নাই। শুধু রোল নম্বর ও রেজিস্ট্রেশন নম্বর ঠিক আছে। চারজনের মধ্যে শিক্ষা বোর্ডের দালালসহ চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। দালালরা নূর তাবাসসুম এর সার্টিফিকেট এর নাম ও রেজিস্ট্রেশন বাদে সব পরিবর্তন করে নূর মিরতিকে সার্টিফিকেট বানিয়ে দেয়। শিক্ষা বোর্ডের ওয়েব সাইটেও সব পরিবর্তন করা।

তিনি বলেন, একজন ভুক্তভোগী পাওয়া গেছে। পরে আরও তদন্ত করে, এর সাথে জড়িত কেউ থাকলে তাদেরও ধরা হবে। মূল সার্টিফিকেট খোয়া গেছে নূর তাবাসসুমের। শিক্ষার বোর্ডের গ্রেফতার  মারুফ  নিম্ন শ্রেণির কর্মচারী, ঊচ্চ পদেরও কেউ জড়িত থাকলে, তদন্ত করে তাদের সংশ্লিষ্টতা খতিয়ে দেখা হবে। মূল সার্টিফিকেট কার তা জানতে, আসামি ধরার পরে জানা যায়, নূর তাবাসসুম আসল, নূর মিরতি ফেল করেছিলো। সাড়ে তিন লাখ টাকা দিয়ে দালালের মাধ্যমে এই সার্টিফিকেট বানায় ও নাম ঠিকানা পরিবর্তন করে দালাল ও বোর্ড কর্মকর্তা।

ভুক্তভোগী বলেন, ২০১৯ সালে সে এসএসসি পাস করে। কলেজে ভর্তি হতে গেলে, বোঝে, বোর্ডের ওয়েট সাইটে পরিবর্তন। এরপর সে ডিবির সহায়তা চায়।

আরও পড়ুন: 


নদীতে নিখোঁজ যুবককে উদ্ধারে নেমে পানির নিচে ‘আটকে গেল’ ডুবুরি

জিয়ার জানাজায় বহু মানুষ ছিল, কফিনে লাশ ছিল না


news24bd.tv তৌহিদ

সম্পর্কিত খবর