চুল কেটে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে জায়গা করে নিলেন তরুণী
চুল কেটে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে জায়গা করে নিলেন তরুণী

চুল কেটে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে জায়গা করে নিলেন তরুণী

অনলাইন ডেস্ক

লম্বা চুল রাখা যেমন কষ্টের তেমনি চ্যালেঞ্জের বিষয়ও। তবে মেয়েদের লম্বা কেশই যেন সৌন্দর্য বাড়িয়ে দেয়। সে যাই হোক। কিন্তু লম্বা রাখতে পোহাতে হয় নানান ঝামেলা।

এই ঝামেলায় ১৭ বছর ধরে সামাল দিয়ে আসছেন পাক বংশোদ্ভূত মার্কিন নারী খেলোয়াড় জাহাব কামাল খান।

তবে আপনি যদি গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে পৃথিবীতে সবচেয়ে লম্বা চুলের অধিকারীর কথা জানতে চান তাহলে নাম আসবে চীনের এক নারীর। কিন্তু একবারে বেশি পরিমাণ চুল দান করার রেকর্ড গড়েছেন ৩০ বছর বয়সী জাহাব কামাল খান।

একজন পেশাদার স্কোয়াশ খেলোয়াড়ের জন্য লম্বা চুল রেখে খেলাধুলা চালিয়ে যাওয়াটাও কম কঠিন ব্যাপার না। সেই অসাধ্য সাধনও করেছেন জাহাব কামাল। অবশেষে সেই সাধের চুল কেটে ফেললেন তিনি। সেই কাটা চুলের অংশ শিশুদের একটি সংস্থায় দান করে গিনেস বিশ্ব রেকর্ডেও ঠাঁই করে নিলেন এই তরুণী। বিশ্বে এককভাবে সবচেয়ে বেশি চুল দান করার রেকর্ড এখন তার।

মার্কিন গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১৩ বছর বয়সে সর্বশেষ চুল কেটেছিলেন জাহাব। চুলের কাটা অংশ তিনি যেসব শিশুর চিকিৎসার কারণে চুল উঠে যায় তাদের জন্য প্রতিষ্ঠিত একটি সংস্থায় দান করেছেন।

ইতিমধ্যে চুল দান করার ছবিটি ফেসবুকে শেয়ার করেছেন জাহাব। পাশাপাশি জানিয়েছেন নিজের মনের কথাও। তার এই উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন নেটিজেনরা।

আরও পড়ুন


জোর করে ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা ১৮ বছরের তরুণী, ভেঙে গেল বিয়ে

এবার ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ট্রলারডুবি নিয়ে যে দাবি জানালেন ব্যারিস্টার সুমন

‘কোমা’য় জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে সেই ক্যাপ্টেন নওশাদ

অনুমতি নিয়ে অভিযান চালাতে হবে: মার্কিন হামলার প্রতিক্রিয়ায় তালেবান


গণমাধ্যমে জাহাব কামাল জানান, তার লম্বা চুলের রহস্যের পেছনে রয়েছে তার নানির গোপন তেল। আমার ছোট চুল দেখে ভালোই লাগছে। কিন্তু আমি আমার লম্বা চুলগুলোকে মিস করছি।

ফেসবুকে দেওয়া এক পোস্টে জাহাব লিখেছেন, আমার বাবার দেওয়া একটি আইডিয়া আমার জীবন বদলে দিয়েছিল…..আমাদের ১৮ বছরের স্বপ্ন অবশেষে সত্যি হলো। চুল হারানো এসব শিশুদের সাথে কাজ করতে পেরে আমার খুব ভালো লাগছে। আমাকে যারা সমর্থন জানিয়েছে তাদের সবাইকে ধন্যবাদ।

news24bd.tv এসএম