ভেনেজুয়েলাকে উড়িয়ে দারুণ সূচনা মেসির আর্জেন্টিনার

অনলাইন ডেস্ক

ভেনেজুয়েলাকে উড়িয়ে দারুণ সূচনা মেসির আর্জেন্টিনার

বিশ্বকাপ বাছাইয়ের শুরুতেই ভেনেজুয়েলাকে উড়িয়ে সহজ জয় তুলে নিল আর্জেন্টিনা। ভেনেজুয়েলাকে ৩-১ গোলে হারিয়ে সহজ জয় নিয়ে ফিরেছে লিওনেল স্কালোনির শিষ্যরা। যার সুবাদে বিশ্বকাপের টিকিট পাওয়ার দৌড়েও বেশ খানিকটা এগিয়ে গেলো দুইবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা।

ভেনেজুয়েলার ইউসিভি অলিম্পিক মাঠে ক্লিন শিট নিয়েই মাঠ ছাড়তে পারতো আর্জেন্টিনা। কিন্তু ম্যাচের একদম শেষ সময়ে গিয়ে পেনাল্টিতে গোল হজম করে তারা। তবে এর আগেই লাউতারো মার্টিনেজ, হোয়াকিন কোররেরা ও অ্যাঞ্জেল কোররেয়ার গোলে নিজেদের কাজ সেরে রেখেছিল আলবিসেলেস্তেরা।

ম্যাচের পঞ্চম মিনিটে লাউতারোর কাছ থেকে পাওয়া পাসে দারুণ সুযোগ আসে মেসির সামনে। কিন্তু অল্পের জন্য ক্রসবারের ওপর দিয়ে চলে যায় আর্জেন্টাইন অধিনায়কের শট। খানিক বাদে জোরালো শট নেন রদ্রিগো ডি পল। তবে তা ঠেকিয়ে দেন ভেনেজুয়েলার গোলরক্ষক।

২৮ মিনিটের মাথায় দুর্দান্ত শট নিয়েছিলেন জিওভানি লো সেলসো। এবারও তা প্রতিহত হয় ভেনেজুয়েলার গোলরক্ষক ও রক্ষণের সামনে। পরের মিনিটেই মেসির পায়ে বিপজ্জনক ফাউল করেন মার্টিনেজ। রেফারি প্রথমে শুধু ফাউলের বাঁশি বাজান। তবে ডাকেন ভিডিও এসিস্ট্যান্ট রেফারির (ভিএআর) সাহায্য।

ভিএআরের রিপ্লেতে দেখা যায়, ডি-বক্সের ঠিক বাইরে করা মার্টিনেজের ফাউলটি ছিল বেশ ভয়াবহ। তাই সরাসরি লাল কার্ড দেখানো হয় মার্টিনেজকে, দশজনের দলে পরিণত হয় স্বাগতিকরা।

দশজনের প্রতিপক্ষের বিপক্ষে গোল দিতেও বেশি সময় নেয়নি আর্জেন্টিনা। প্রথমার্ধের অতিরিক্ত যোগ করা সময়ের দ্বিতীয় মিনিটে গোল করেন লাউতারো। লো সেলসোর এগিয়ে দেয়া বল ডি-বক্সে একাই পেয়ে যান তিনি। বাকি কাজ সহজেই সারেন এ সুযোগসন্ধানী ফরোয়ার্ড।

আরও পড়ুন


ঘূর্ণিঝড়, অতিবৃষ্টি ও বন্যায় যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু বেড়ে ৪৬

কাভানির উৎসর্গে ৭ নম্বর জার্সিই পেল রোনালদো

আমেরিকা নেয়া হবে শুনলে ভারতীয়রাও বিমানবন্দরে ভিড় করবে: সোহেল

তুরস্ক ও আজারবাইজানের যৌথ সামরিক মহড়া শুরু


দ্বিতীয়ার্ধে ম্যাচের ৬২ মিনিটের সময় লো সেলসোর জায়গায় হোয়াকিন কোররেয়া এবং পরের মিনিটে অ্যাঞ্জেল ডি মারিয়ার বদলে অ্যাঞ্জেল কোররেয়াকে নামান আর্জেন্টিনা কোচ লিওনেল স্কালোনি। কোচের এ সিদ্ধান্তের যৌক্তিকতা প্রমাণে মাত্র দশ মিনিট সময় নেন দুই কোররেয়া, স্কোরশিটে নাম তোলেন দুজনই।

ম্যাচের ৭১ মিনিটের সময় লাউতারোর কাছ থেকে বল পেয়ে ডি-বক্সে ঢুকে পড়েন হোয়াকিন কোররেয়া। নিখুঁত ফিনিশিংয়ে স্কোরলাইন ২-০ করেন তিনি। এর মিনিট তিনেক পর লাউতারোর শট ঠেকিয়ে দেন ভেনেজুয়েলা গোলরক্ষক। তবে ফিরতি বলে স্কোরশিটে নাম তুলতে ভুল করেননি অ্যাঞ্জেল কোররেয়া।

এ জয়ের পর লাতিন অঞ্চলের বাছাইয়ে দ্বিতীয় স্থান আরও শক্ত হলো আর্জেন্টিনার। সাত ম্যাচে ৪ জয় ও ৩ ড্রয়ে তাদের সংগ্রহ ১৫ পয়েন্ট। সমান ম্যাচে মাত্র ৪ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলে সবার নিচে রয়েছে ভেনেজুয়েলা।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

ইউয়েফা চ্যাস্পিয়ন্স লিগে প্রথম ম্যাচেই হোঁচট খেল মেসি-নেইমাররা

অনলাইন ডেস্ক

ইউয়েফা চ্যাস্পিয়ন্স লিগে প্রথম ম্যাচেই হোঁচট খেল মেসি-নেইমাররা

ইউয়েফা চ্যাস্পিয়ন্স লিগে গ্রুপ পর্বের প্রথম ম্যাচেই হোঁচট খেয়েছে মেসি-নেইমারের পিএসজি। বেলজিয়ান ক্লাব ব্রুজের সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করেছে ফরাসি জায়ান্টরা। এদিকে অপর ম্যাচে ইতালিয়ান চ্যাম্পিয়ন ইন্টার মিলানকে ১-০ গোলে হারিয়ে আসরের শুভ সূচনা করেছে রিয়াল মাদ্রিদ।

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের এ গ্রুপে নিজেদের প্রথম ম্যাচে বেলজিয়ান দল ক্লাব ব্রুজের আতিথ্য নিয়েছিলো ফরাসি জায়ান্ট পিএসজি। মেসি-নেইমার-এমবাপ্পেদের নিয়ে সাজানো শক্তিশালী একাদশ নিয়েই মাঠে নেমেছিলো লিগ ওয়ান চ্যাম্পিয়নরা। ম্যাচের শুরু থেকেই বল দখলে এগিয়ে ছিলো পিএসজি। তবে, আক্রমণে আধিপত্য ছিলো স্বাগতিকদেরই। 

ম্যাচের ১৫ মিনিটে কাউন্টার এট্যাকে এগিয়ে যায় ফরাসি জায়ান্টরা। বাঁ দিক দিয়ে আক্রমণে ওঠা এমবাপে দুই ডিফেন্ডারকে ফাঁকি দিয়ে বল বাড়ান ডি বক্সে। কিছুটা অনিয়ন্ত্রিত প্লেসিং শটে লক্ষ্য ভেদ করেন আন্ডার হেরেরা। তবে, সে আনন্দ বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি তাদের। ম্যাচের ২৭ মিনিটে খেলায় সমতা ফেরায় গতিময় ফুটবল খেলতে থাকা ক্লাব ব্রুজ। এদুয়ার্দ সোবোলের পাসে ফানাকেনের শট ডিফ্লেকশনে জড়ায় জালে।
 
জর্জিনিয়ো উইনালডাম ও লেয়ান্দ্রো পারেদেসকে তুলে দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে ইউলিয়ান ড্রাক্সলার ও দানিলোকে নামান পিএসজি কোচ পচেত্তিনো। এরপর এমবাপ্পে চোটে পড়লে অনেকটাই নিষঃপ্রাণ হয়ে পড়ে পিএসজির আক্রমণভাগ। ফলে, প্রতিপক্ষের গোল রক্ষকের পরীক্ষা আর সেভাবে নিতে পারেন নি মেসি-নেইমাররা। শেষ পর্যন্ত, পয়েন্ট ভাগাভাগি করেই মাঠ ছাড়ে দু'দল। 
   
এদিকে, ডি গ্রুপের হাইভোল্টেজ ম্যাচে মিলানের বিখ্যাত স্যান সিরোতে ইন্টারের আতিথ্য নিয়েছিলো স্প্যানিশ জায়ান্ট রিয়াল মাদ্রিদ। টানা তিন আসরে গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায় নেওয়ার হতাশা পেছনে ফেলে ম্যাচের শুরু থেকেই দারুন আক্রমনাত্মক ফুটবল খেলতে থাকে ইন্টার মিলান। প্রথমার্ধো জুড়ে নিরাজ্জুরিদের আক্রমণ সামলাতেই ব্যাস্ত দেখা দেখা যায় আনচেলোত্তির শিষ্যদের। তবে, ফরোয়ার্ডদের ফিনিশিং দুর্বলতায় গোলের দেখা পায়নি তারা।

আরও পড়ুন: 


বাংলাদেশি মিথিলার প্রশংসা করলেন বলিউড নির্মাতা!

বার্থ সার্টিফিকেটের মাধ্যমে জানা গেল নুসরাতের ছেলের পিতৃপরিচ‍য়

বান্দরবানে একই পরিবারের তিনজন নিখোঁজ

মন্ত্রিসভায় বড় ধরনের রদবদল করলেন বরিস জনসন


দ্বিতীয়ার্ধে শুরুতে আবারও রিয়ালের রক্ষণে ভীতি ছড়ায় স্বাগতিকরা। অবশ্য পাল্টা আক্রমণে সাজিয়ে ধীরে ধীরে ম্যাচে নিয়ন্তণ নিয়ে আসে গ্যালাকটিকোরা। তবে, দুই দলের ফরোয়ার্ডরা জাল খুঁজে পেতে ব্যার্থ হলে নিশ্চিত ড্রয়ের দিকেই এগুচ্ছিলো ম্যাচ।

ম্যাচের ৮৯ মিনিটে ব্যবধান গড়ে দেন রদ্রিগো। কামাভিঙ্গার ভলি থেকে বল পেয়ে লক্ষ্য ভেদ করতে ভুল করেননি এই ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড। ফলে, ১-০ গোলের জয়ে ৩ পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়ে রিয়াল মাদ্রিদ।

news24bd.tv রিমু    

পরবর্তী খবর

রদ্রিগোর গোলে ইন্টার মিলানকে হারাল রিয়াল মাদ্রিদ

অনলাইন ডেস্ক

রদ্রিগোর গোলে ইন্টার মিলানকে হারাল রিয়াল মাদ্রিদ

রিয়াল মাদ্রিদের দারুণ ভাবে ফিরে আসা- প্রথমার্ধে স্বাগতিকদের একচেটিয়ে দাপটের পর দ্বিতীয়ার্ধে এবং শেষ মুহুর্তে গোলের দেখা পেয়ে ইতালি থেকে জয় নিয়ে ফিরলো স্প্যানিশ জায়ান্টরা।

বুধবার রাতে চ্যাম্পিয়নস লিগের গ্রুপ ‘ডি’ এর ম্যাচে সান সিরোতে স্বাগতিক ইন্টার মিলানকে ১-০ গোলে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ। স্প্যানিশ ক্লাবটির হয়ে জয়সূচক গোলটি করেছে ব্রাজিলিয়ান রদ্রিগো।ছিনতাই

এ নিয়ে টানা দ্বিতীয়বার চ্যাম্পিয়নস লিগে একই গ্রুপে পড়েছে রিয়াল মাদ্রিদ ও ইন্টার মিলান। গত আসরের দুই লেগেই জিতেছিল রিয়াল মাদ্রিদ। এই হারে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে শেষ ৬ ম্যাচে এখনো জয়ের দেখা পেল না ইন্টার। পাঁচ ম্যাচ হারের বিপরীতে ড্র একটি। এদিকে ইন্টার মিলানের ঘরের মাঠে গত আসরের জয়ের আগে শেষ ছয় ম্যাচেই জয়ের দেখা না পাওয়া লস ব্লাংকোসরা টানা দুই আসরের ইন্টারের মাঠ থেকে জয় নিয়ে ফিরল।

এ নিয়ে স্প্যানিশ দলগুলার বিপক্ষে টানা ৮ ম্যাচ জয়হীন থাকল ইতালিয়ান জায়ান্টরা। সব শেষ ২০১০ সালে সান সিরোতে বার্সেলোনাকে ৩-১ গোলে হারিয়েছিল হোসে মরিনহোর সেই দল।

পুরা ম্যাচে ৫৪ শতাংশ বল দখলের পাশাপাশি প্রতিপক্ষের পোস্টে ১২টি শট নিলে টার্গেটে রাখতে পেরেছিল মোটে দুইটি, এর মধ্যে একটিতেই গোলের দেখা পেয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ। বিপরীতে ইন্টার ১৮টি শট নিলেও টার্গেটে রেখেছিল ৫টি তবুও গোলের দেখা পায়নি। 

এর অন্যতম কারন মাদ্রিদ কিপা থিবো কোর্তুয়ার অমানবিক পারফরমেন্স।ম্যাচের নবম মিনিটে থিবো কোর্তুয়ার দারুন সেইভে রক্ষা পায় রিয়াল মাদ্রিদ। ফলে বিফলে যায় ইন্টার মিলানের তিন ফরোয়ার্ডের চেস্টা। ১৪ তম মিনিটে ২৫ গজ দূর থেকে ক্যাসেমিরোর নেওয়া শট ডান পাশে বার ঘেষে বাইরে চলে যায়।১৯তম মিনিটে মুখ্যম সুযোগ মিস করেন ইন্টারের লাউতারো মার্টিনেজ। বাম পাশ থেকে পেরিসিকের দারুন এক ক্রস বক্সের মধ্যে থেকে হেড করেন মার্টিনেজ কিন্তু জায়গা দাঁড়িয়ে তা রুখে দেন থিবো কোর্তুয়া।

ইন্টারের সহজ সুযোগ মিসের পর গোলের সুযোগ পেয়েছিল মাদ্রিদও কিন্তু তা কাজে লাগাতে পারেনি। ৩৬ মিনিটে ফাকা পেয়েও বল জালে জড়াতে পারেনি এডার মিলিতাও। লুকা মদ্রিচের কর্ণার থেকে ছয় গজ দূরে আনমার্ক থাকলেও হেডে লক্ষ্যভেদ করতে পারেনি এই ব্রাজিলিয়ান।

ম্যাচের ৮৯ মিনিটে এদুয়ারদো কামাভিঙ্গার কাট ব্যাক থেকে বাম পায়ের শটে দুরের পোস্টে লক্ষ্যভেদ করেন এই ব্রাজিলিয়ান। এ নিয়ে শেষ ১৫ মৌসুমের ১৩ মৌসুমের চ্যাম্পিয়নস লিগের শুরুর ম্যাচে জয় পেল রিয়াল মাদ্রিদ। যে দুই মৌসুম হার দিয়ে শুরু করেছে সেই দুই আসর হচ্ছে ২০১৯-২০ ও ২০২০-২১ মৌসুম।গ্রুপ পর্বের দ্বিতীয় ম্যাচে আগামী ২৯ সেপ্টেম্বর শেরিফের মুখোমুখি হবে রিয়াল মাদ্রিদ এবং ২৮ সেপ্টেম্বর শাকতার দানেস্কের সাথে খেলবে ইন্টার মিলান।

NEWS24.TV / কামরুল

পরবর্তী খবর

বার্সেলোনাকে উড়িয়ে দিলো বায়ার্ন

অনলাইন ডেস্ক


বার্সেলোনাকে উড়িয়ে দিলো বায়ার্ন

বায়ার্ন মিউনিখের কাছে ৩-০ গোলে হেরে গেলো বার্সেলোনা। মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) রাতে ন্যু ক্যাম্পে ই-গ্রুপের এ খেলায় হারের মধ্য দিয়ে চ্যাম্পিয়নস লীগ শুরু করলো বার্সা।

জার্মান চ্যাম্পিয়নদের হয়ে জোড়া গোল করেন রবার্ট লেভানডভস্কি। বাকি গোলটি আসে থমাস মুলারের পা থেকে। পুরো ম্যাচেই মেসিবিহীন বার্সার ওপর ছড়ি ঘুরিয়েছে সফরকারী বায়ার্ন। ম্যাচের ৩৩ মিনিটে থমাস মুলারের করা গোলে এগিয়ে বিরতিতে যায় কোচ জুলিয়ান নাগেলসমানের দল। 

বিরতির পরও ছন্দ খুঁজে পাচ্ছিল না বার্সা। সিংহভাগ বল নিয়ন্ত্রনে রাখা বায়ার্ন বারবার আক্রমণ করে যাচ্ছিল কাতালানদের। ৫৬তম মিনিটে জার্মান ক্লাবটির স্কোরলাইন দ্বিগুণ করেন লেভানডভস্কি। জামাল মুসিয়ালার শট গোলপোস্টে থেকে ফিরে এলে পরের শটেই বার্সার জাল খুঁজে নেন পোলিশ এ তারকা। ৮৫ মিনিটে দ্বিতীয় গোলের দেখা পান লেভা। সার্জি গিনার্বির দুর্দান্ত এক শট স্টেগেন ঠেকিয়ে দিলেও ফিরতি শটে জাল খুঁজে নিয়ে ব্যবধান বাড়াতে ভুল করেননি এ স্ট্রাইকার। এ নিয়ে ১৯৯৭-৯৮ মৌসুমের পর এবারই প্রথম চ্যাম্পিয়ন্স লিগের প্রথম ম্যাচে হারের স্বাদ পায় বার্সেলোনা।  

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

প্রতি দুই বছরে বিশ্বকাপ আয়োজনের পরিকল্পনা ফিফার

অনলাইন ডেস্ক

চার বছরের পরিবর্তে প্রতি দুই বছরে একটি বিশ্বকাপ আয়োজনের পরিকল্পনা করছে ফিফা। আর তার পক্ষে মত দিয়েছে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন-এএফসি।

এক বিবৃতিতে বিশ্ব ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থার এই পরিকল্পনাকে স্বাগত জানিয়েছে এএফসি। আন্তর্জাতিক ম্যাচের বার্ষিক সূচি নতুন করে সাজানোর অংশ হিসেবে দুই বছর পরপর বিশ্বকাপ আয়োজনের পরিকল্পনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে প্রচার চালাচ্ছে ফিফা।

 তবে, ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা উয়েফা ও লাতিন আমেরিকার ফুটবল সংস্থা কনমেবল অবশ্য সরাসরি অবস্থান নিয়েছে এই প্রস্তাবের বিপক্ষে। এমনকি বিশ্বকাপ বয়কটের হুমকিও দিয়েছেন উয়েফা সভাপতি আলেকসান্দের চেফেরিন। 


বিয়ে ছাড়াই আবারও মা হচ্ছেন কাইলি জেনার

বলিউড পরিচালক বিশাল ভরদ্বাজের প্রস্তাবে মিমের না!

দেশমাতা, আমাকে কি একটু নিরাপত্তা দিতে পারেন


আর কনমেবলের মতে, এমন পরিকল্পনা অযৌক্তিক এবং ফুটবলের আন্তর্জাতিক সূচির ওপর, অনেক বড় বোঝা। 

অন্যদিকে, উত্তর ও মধ্য আমেরিকার এবং ক্যারিবিয়ান অঞ্চলের ফুটবল সংস্থা কনকাকাফ জানিয়েছে, বিষয়টি  ইতিবাচক দৃষ্টিতে দেখছে তারা।

news24bd.tv/আলী  

পরবর্তী খবর

মেসির চলে যাওয়ার দায় লা লিগা সভাপতির

অনলাইন ডেস্ক

বার্সেলোনায় মেসির অধ্যায় শেষ হয়েছে বেশ কিছুদিন আগেই। কিন্তু মেসির চলে যাওয়া নিয়ে এখনো চলছে আলোচনা। সম্প্রতি সময়ে বার্সা সভাপতির দেয়া এক বক্তব্যের পর আবারো নতুন আলোচনার সূচনা হয়েছে।

মেসি ও বার্সেলোনার মধ্যে বিচ্ছেদের জন্য লা লিগার প্রধান হাভিয়ের তেবাসকে সরাসরি দায়ী করেছেন কাতালান ক্লাবটির সভাপতি হুয়ান লাপোর্তা।  

ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লে নামক নতুন নিয়মের কারণে গত অগাস্টে মেসির সঙ্গে নতুন চুক্তি করতে ব্যর্থ হয় বার্সেলোনা। লা লিগার ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লে নিয়মের ব্যাপারে তেবাস আরও নমনীয় হলে মেসি বার্সেলোনায় থাকতে পারতেন বলে মনে করেন লাপোর্তা। 


বিয়ে ছাড়াই আবারও মা হচ্ছেন কাইলি জেনার

বলিউড পরিচালক বিশাল ভরদ্বাজের প্রস্তাবে মিমের না!

দেশমাতা, আমাকে কি একটু নিরাপত্তা দিতে পারেন


তবে লাপার্তোর এই বক্তব্য অগ্রহণযোগ্য বলে জানান তেবাস।

 news24bd.tv/

পরবর্তী খবর