ঝিনাইদহে বেড়েছে পুরুষের একসাথে আত্মহননের প্রবণতা!

শেখ রুহুল আমিন, ঝিনাইদহ

ঝিনাইদহে বেড়েছে পুরুষের একসাথে আত্মহননের প্রবণতা!

ঝিনাইদহে গতকাল ১০ সেপ্টেম্বর বিশ্ব আত্মহত্যা প্রতিরোধ দিবস পালিত হয়েছে। সারাবিশ্বেও এই দিনটিকে আত্মহত্যা প্রতিরোধ দিবস হিসাবে পালন করা হয়। ঝিনাইদহে আত্মহত্যার সংখ্যা কমলেও বেড়েছে পুরুষদের আত্মহত্যার হার। সেই সাথে বেড়েছে একসাথে আত্মহত্যার প্রবণতা।

জেলা প্রশাসনের দেওয়া তথ্য মতে, ২০১৬ সাল থেকে চলতি বছরের ৩০ অক্টোবর পর্যন্ত ঝিনাইদহের ৬ উপজেলায় পারিবারিক কলহ, প্রেমে ব্যার্থতাসহ নানা কারণে আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে ২ হাজার ৪১ জন নারী-পুরুষ। বর্তমানে করোনাকালে জেলায় আত্মহত্যার সংখ্যা কমলেও বেড়েছে পুরষদের আত্মহত্যার হার। 

তথ্য যাচাই করে দেখা যায়, ২০১৬ সালে জেলায় মোট আত্মহত্যা করে ৩৮৮ জন। এর মধ্যে নারী ২১৯ জন ও পুরুষ ১৬৯ জন, ২০১৭ সালে আত্মহত্যার সংখ্যা বেড়ে দাড়ায় ৪২৪ জনে। এদের মধ্যে নারী ২৩৭ জন ও পুরুষ ১৮৭ জন। ২০১৮ সালের পর থেকে জেলায় কমতে থাকে আত্মহননের সংখ্যা। সে বছর আত্মহত্যা করে ৩৯৬ জন। এদের মধ্যে নারী ২২০ জন ও পুরুষ ১৭৬ জন। ২০১৯ সালে আত্মহত্যা করে ৩০৬ জন। যার মধ্যে নারী ছিল ১৭১ জন ও পুরুষদ ছিল ১৩৫ জন। ২০২০ সালে জেলায় মোট আত্মহত্যার সংখ্যা ছিল ৩২০ জন। যার মধ্যে নারী ছিল ১৬৯ জন ও পুরুষ ছিল ১৫১ জন। আর চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে ৩১ আগস্ট পর্যন্ত আত্মহত্যার সংখ্যা ২০৬ জন। যার মধ্যে নারী ১০৮ জন ও পুরুষ রয়েছে ৯৮ জন। গত ৫ বছরের তথ্য বিবেচনায় নারীদের আত্মহত্যার সংখ্যা বেশি। কিন্তু করোনাকালে বেড়েছে পুরুষদের আত্মহত্যার কার।

তথ্য বলছে, ২০১৬ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত পুরুষদের আত্মহত্যার হার ৪৩ থেকে ৪৪ ভাগ থাকলেও বর্তমানে তা বেড়েছে দাড়িয়েছে ৪৭ ভাগের বেশি। কারণ হিসেবে সংশ্লিষ্টরা বলছেন, লকডাউনে কর্মহীন আর পাবিবারিক কলহ আর হতাশা। এদিকে বর্তমানে জেলায় দেখা দিয়েছে একসাথে বা একরশিতে আত্মহত্যার প্রবণতা।

ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, পুরুষ মেডিসিন ওয়ার্ডের বারান্দায় মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে শহরের কাঞ্চনপুর এলাকার ২০ বছর বয়সী যুবক ইমরান হোসেন। গত ২৮ আগস্ট নব-বিবাহিতা স্ত্রীকে সাথে নিয়ে নিজ ঘরে আত্মহত্যার চেষ্টা করে সে। স্ত্রী ওই দিন মারা গেলেও এখন হাসপাতালে কাতরাচ্ছেন সে। বৃহস্পতিবার বিকেলে একসাথে ঘুরে সন্ধ্যায় আত্মহত্যা কারণ আজও অজানা পরিবারের।

ওই মাসেরই ১৩ তারিখে প্রেমের স্বীকৃতি না পেয়ে এক রশিতেই ঝুলে আত্মহত্যা করে মহেশপুর উপজেলার চাপাতলা গ্রামের প্রেমিক জুটি। ২২ আগস্ট দুপুরে হরিণাকুন্ডু উপজেলার বেলতলা গ্রামে পারিবারিক কলহের কারণে সদ্যবিবাহিত স্ত্রীকে নিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে দুইজন। হাসপাতালে নেওয়ার পর প্রথমে স্ত্রী ও পরে মারা যায় স্বামী।

জেলা সনাকের সভাপতি সায়েদুল আলম বলেন, বর্তমানে আমরা দেখছি পারিবারিক কলহ, মনমালিণ্য, প্রেমে ব্যার্থতাসহ নানা কারণে একসাথে আত্মহত্যার প্রবণতা বেড়েছে। জেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে এ ধরনের সংবাদ আসছে। সামাজিক এই ব্যাধি দুর করতে দ্বায়িত্ব নিতে হবে সরকার, সমাজ ও পরিবারের। বিভিন্ন সংস্থার মাধ্যমে তৃণমুল পর্যায়ে গিয়ে আত্মহত্যার কু-ফল সম্পর্কে সবাইকে সচেতন করতে হবে।

আত্মহত্যা প্রতিরোধ সংক্রান্ত নানা বিষয়ে কাজ করে ঝিনাইদহের সোসাইটি ফর ভলান্টারি অ্যাকটিভিটিজ (শোভা) নামে একটি সংগঠন। সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল ইসলাম জানান, করোনা কালে আত্মহত্যার হার কমেছে। তবে পুরুষদের আত্মহত্যার হার বেড়েছে। আয়-রোজগার না থাকা, হতাশা বা মানসিক অস্থিরতাই এ কারণ বলে জানান তিনি।

আরও পড়ুন:

কোহলিকে নিয়ে নিজের গোপন তথ্য ফাঁস করলেন নায়িকা

টানা লোকসানে ভারতে ফোর্ডের কারখানা বন্ধের সিদ্ধান্ত

হিজাব ছাড়া নারীদের নিয়ে তালেবান কর্মকর্তার বিস্ফোরক মন্তব্য

পরীমণি অত্যন্ত মানবিক, তার ঋণ শোধ করা যাবে না: পরিচালক


জাহিদুল ইসলাম আরো জানান, ঝিনাইদহসহ এ অঞ্চলের মানুষ কিছুটা আবেগ প্রবণ। যে কারণে আত্মহত্যার হার এখানে বেশি। এ জেলার মানুষ কখন আইলা দেখেনি, কখন দেখেনি রাতের আঁধারে নিজেদের ঘর-বাড়ি নদীতে বিলীন হতে। দেশের অন্যান্য অঞ্চলের মানুষ অনেকটা সংগ্রামী। কিন্তু এ এলাকার মানুষ প্রাকৃতিক কোন দুর্যোগের সম্মুখীন হয়নি। তারা একটু বেশিই আবেগ প্রবণ। আত্মহত্যার প্রধান কারণগুলোর মধ্যে এটাও অন্যতম।

তিনি বলেন, আত্মহত্যা সমাজ থেকে দুর করতে সমাজের সর্বস্তরের মানুষকে এগিয়ে আসতে হবে। দায়িত্ব নিতে হবে সরকারকে। সর্বস্তরের মানুষকে সচেতন করলেই এটি দূর করা সম্ভব।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

টেকনাফে ফিরেছেন আটকে পড়া তিন শতাধিক পর্যটক

অনলাইন ডেস্ক

কক্সবাজারের সেন্টমার্টিন থেকে টেকনাফে ফিরেছেন আটকে পড়া তিন শতাধিক পর্যটক।  

আবহাওয়া ভাল থাকায় মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) সকাল ৮টা থেকে ১০টা পর্যন্ত ৯টি ট্রলারে এসব পর্যটক টেকনাফের উদ্দেশে রওয়ানা হন। 

লঘু চাপের প্রভাবে বঙ্গোপসাগর উত্তাল থাকায় গেল রোববার টেকনাফের সাথে সেন্টমার্টিন সমুদ্র পথে যাত্রী বাহী ট্রলার চলাচল বন্ধ করে দেয় প্রশাসন। 

আরও পড়ুন:


পিএসসির প্রশ্ন ফাঁস করলে ১০ বছরের জেল: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

গাজীপুর সাফারি পার্কে জেব্রা পরিবারে নতুন অতিথি

‘সংখ্যালঘু’ শব্দটি থাকা উচিত না

পায়রা সেতুর উদ্বোধন ২৪ অক্টোবর


এ কারণে ওই দিন বিকেল থেকে ট্রলারসহ কোন নৌযান প্রবালদ্বীপ থেকে ছেড়ে আসেনি। ফলে সেন্টমার্টিনে আটকা পড়েন তিন শতাধিক পর্যটক।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

প্রেমিকের সঙ্গে দীর্ঘদিন শারীরিক সম্পর্ক, বিয়ের দাবি তরুণীর

অনলাইন ডেস্ক

প্রেমিকের সঙ্গে দীর্ঘদিন শারীরিক সম্পর্ক, বিয়ের দাবি তরুণীর

কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারী উপজেলায় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে প্রেমিকার সঙ্গে দীর্ঘদিন শারীরিক সম্পর্ক করে প্রেমিক শ্রী নিমাই চন্দ্র। কিন্তু হঠাৎই নিমাই বিয়ের চেষ্টা করলে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অবস্থান নিয়েছেন প্রেমিকা।

সোমবার (১৮ অক্টোবর) বিকাল ৫টার দিকে উপজেলার সদর ইউনিয়নের বারাইটারী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

জানা যায়, প্রায় ১ বছর আগে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে গ্রামের শ্রী নরেশ চন্দ্রের ছেলে শ্রী নিমাই চন্দ্রের (২৪) সঙ্গে কামাত আঙ্গারিয়া গ্রামের এক তরুণীর (২০)। বিয়ের প্রলোভনে অনেকবার শারীরিক সম্পর্ক করেন অভিযুক্ত প্রেমিক। বিষয়টি জানাজানি হলে নিমাইয়ের পরিবার ফুলবাড়িতে পাত্রী খুঁজে চুক্তিপত্র ও আশির্বাদ সম্পন্ন করে।

এ খবর পেয়ে তরুণী সোমবার (১৮ অক্টোবর) বিকাল ৫টার দিকে বিয়ের দাবিতে নিমাইয়ের বাড়িতে প্রবেশের চেষ্টা করলে বাড়ির লোকজন তাকে গলা ধাক্কা দিয়ে বের করে দেয়। পরে প্রেমিকের বাড়ির সামনে অবস্থান নেন এবং বৃষ্টিতে ভিজে অসুস্থ হয়ে পড়ে সে।

আরও পড়ুন


বরিশালে টানা বৃষ্টিতে জনজীবন বিপর্যস্ত

একসঙ্গে আইরিন-ইমন

ঘোষিত প্রণোদনার দাবিতে শের-ই বাংলা মেডিকেলে নার্সদের বিক্ষোভ

ভয় নেই, পাশে আছি: আওয়ামী লীগ


ঘটনাটি জানাজানি হলে লোকজন জমায়েত হতে দেখে নিমাই আত্মগোপন করে। বিষয়টি সমাধানের জন্য স্থানীয় ব্যক্তিরা এসে প্রেমের বিষয়টির সত্যতা পেয়ে নিমাইয়ের স্বজনকে ওই প্রেমিকার বিয়ে নিমাইয়ের সঙ্গে দিতে বলে। উপায় না পেয়ে ছেলে পক্ষ বুধবার বিয়ের তারিখ দিলেও অসুস্থ হয়ে পড়া ওই তরুণীকে তার স্বজনরা ওই বাড়ি থেকে নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করায়।

এ বিষয়ে ভুরুঙ্গামারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন ঘটনার সত‍্যতা স্বীকার করে বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছিল। হিন্দু সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ বিষয়টি মীমাংসা করবেন বলে জানালে মেয়েটিকে তার অভিভাবকের জিম্মাায় দেওয়া হয়েছে। তবে এ ঘটনায় থানায় কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

কর্মহীন বরগুনার পাঁচ হাজারেরও বেশি মৎস্য শ্রমিক

সুমন শিকদার, বরগুনা

ইলিশ ধরা, পরিবহন ও বিক্রি নিষেধ থাকায় কর্মহীন হয়ে পড়েছে বরগুনার পাঁচ হাজারেরও বেশি মৎস্য শ্রমিক। বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে তাদের স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। তাই নিষেধাজ্ঞা চলাকালীন সরকারি সহায়তা পাওয়ার দাবি করছেন এই মৎস্য শ্রমিকরা। 

এবিষয়ে উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে বলছেন, জেলা মৎস্য কর্মকর্তা। 
বাংলাদেশের বৃহত্তম মৎস্য অবতরণ কেন্দ্র পাথরঘাটা বিএফডিসি মৎস্য ঘাট। ২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা চলায় মৎস্য অবতরণ, ক্রয়-বিক্রয়ে সরগরম থাকা এই মৎস্য ঘাটটি এখন জনশূন্য। 

ইলিশ ধরা, ক্রয়-বিক্রয়, পরিবহন বন্ধ থাকায় শুধুমাত্র এই মৎস্যঘাটেরই পাঁচ হাজারের বেশি শ্রমিক এখন বেকার।

মৎস্য কেন্দ্রিক এই শ্রমিকদের বিকল্প পেশা না থাকায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে স্বাভাবিক জীবন। একমাত্র আয়ের পথ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় পরিবার পরিজন নিয়ে বিপাকে পড়েছেন তারা।

নিষেধাজ্ঞা চলাকালীন সময় জেলেদের পুনর্বাসনের ব্যবস্থা থাকলেও এই মৎস্য শ্রমিকদের জন্য নেই কোন সহায়তা। তাই নিষেধকালে জেলেদের মতো শ্রমিকদেরও সহায়তার আওতায় আনার দাবি মৎস্য শ্রমিকদের।

আরও পড়ুন:


পিএসসির প্রশ্ন ফাঁস করলে ১০ বছরের জেল: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

গাজীপুর সাফারি পার্কে জেব্রা পরিবারে নতুন অতিথি

‘সংখ্যালঘু’ শব্দটি থাকা উচিত না

পায়রা সেতুর উদ্বোধন ২৪ অক্টোবর


ঘাট শ্রমিকদের জন্য সরকারের কোনো বরাদ্দ না থাকায় মৎস্য বিভাগের কিছুই করার থাকে না। তবে কর্মহীন হয়ে পড়া এই শ্রমিকদেরও সরকারি সহায়তার আওতায় আনা যায় কিনা এবিষয়ে উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জানানো হয়েছে বলছেন জেলা মৎস্য কর্মকর্তা।

বরগুনাসহ দেশের উপকূলীয় সাগর-নদীতে ৪ অক্টোবর মধ্যরাত থেকে শুরু হয়েছে ২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা; চলবে আগামী ২৫ অক্টোবর মধ্যরাত পর্যন্ত।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

সিলেটে বিষপানে যুবকের আত্মহত্যা

অনলাইন ডেস্ক

সিলেটে বিষপানে যুবকের আত্মহত্যা

সিলেটের বিশ্বনাথে জুনেদ আহমদ (৩০) নামের এক যুবক বিষপানে আত্মহত্যা করেছেন।

আজ সকালে ৭টায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

মৃত, জুনেদ আহমদ নামতিনি উপজেলার দশঘর ইউনিয়নের চাঁন্দভরাং পুরানগাঁও গ্রামের মৃত আঙ্গুর মিয়ার ছেলে। পেশায় তিনি কৃষিজীবী ছিলেন। 

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, পরিবারের লোকজনের সাথে অভিমান করে সোমবার রাত ১টায় কীটনাশক পান করেন তিনি। এসময় বমির শব্দ শুনে পরিবারের সদস্যরা তার রুমে ছুটে যান। বিষয়টি আচ করতে পেয়ে দ্রুত তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান তারা। পরে আজ মঙ্গলবার সকাল ৭টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন তিনি।

 

আরও পড়ুন:


পিএসসির প্রশ্ন ফাঁস করলে ১০ বছরের জেল: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

গাজীপুর সাফারি পার্কে জেব্রা পরিবারে নতুন অতিথি

‘সংখ্যালঘু’ শব্দটি থাকা উচিত না

পায়রা সেতুর উদ্বোধন ২৪ অক্টোবর


বিশ্বনাথ পুলিশ স্টেশনের অফিসার ইন-চার্জ গাজী আতাউর রহমান বলেন, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

বরিশালে টানা বৃষ্টিতে জনজীবন বিপর্যস্ত

রাহাত খান, বরিশাল

বরিশালে টানা বৃষ্টিতে জনজীবন বিপর্যস্ত

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট বায়ুচাপের তারতম্যের কারণে বরিশালে আজও মুশলধারে বিরামহীন বৃষ্টি হচ্ছে। এতে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। 

বরিশাল আবহাওয়া অফিস সূত্র জানায়, বঙ্গোপসাগরে সঞ্চালনশীল বজ্রমেঘমালার কারণে বায়ুচাপের সৃষ্টি হয়েছে। এই বায়ুচাপের তারতম্যের কারণে বজ্রসহ বৃষ্টি হচ্ছে। গতকাল রাত থেকে বরিশালে মুশলধারে বৃষ্টি হচ্ছে।

গতকাল সকাল ৬টা থেকে আজ সকাল ৬টা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টা বরিশাল আবহাওয়া অফিস ৬৪.১ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে। আজ মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত প্রায় ৬০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে তারা।

বৈরী আবহাওয়ার কারণে দেশের ৩টি সমুদ্র বন্দরকে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত এবং নদী বন্দর সমূহকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলেছে আবহাওয়া অফিস।

আরও পড়ুন


একসঙ্গে আইরিন-ইমন

ঘোষিত প্রণোদনার দাবিতে শের-ই বাংলা মেডিকেলে নার্সদের বিক্ষোভ

ভয় নেই, পাশে আছি: আওয়ামী লীগ

গভীর রাতে পরকীয়া প্রেমিকার বাড়িতে গিয়ে রক্তাক্ত প্রেমিক!


এদিকে বিরামহীন বৃষ্টির কারণে বরিশালের জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। বিশেষ করে শিক্ষার্থী ও কর্মব্যস্ত মানুষ পড়েন চরম বিপাকে। সংকট দেখা দিয়েছে অভ্যন্তরীন বিভিন্ন যানবাহনের। যানবাহন সংকটের কারনে বেড়েছে রিক্সা এবং থ্রি হুইলার ভাড়া।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর