ক্যাটরিনার বাগদানের খবর সত্যি না গুজব?

অনলাইন ডেস্ক

ক্যাটরিনার বাগদানের খবর সত্যি না গুজব?

কিছুদিন আগেই ভাইরাল হয় ভিকি কৌশল ও ক্যাটরিনা কাইফের বাগদান হওয়ার কথা। তারা নাকি বিয়ে সেরে ফেলেছেন। তারা নাকি গোপনেই আংটি বদল করেছেন। যদিও এরপরই ক্যাটরিনার টিমের পক্ষ থেকে জানানো হয় যে ওই দিন টাইগার থ্রিয়ের শুটিং করছিলেন অভিনেত্রী।

তবে এসবের মাঝেই ভিকি কৌশলের ভাই সানি কৌশল শেয়ার করলেন এক মজার ঘটনা।

তিনি জানান, ভিকির সঙ্গে ক্যাটরিনার রোকার কথা শুনে তাঁর বাবা-মা মজাই পান। যখন এই খবর তাঁদের কানে যায় তখন ভিকি কৌশল ছিলেন জিমে। জিম থেকে ফেরার পরই তাঁকে নিয়ে মজা করতে শুরু করেন তাঁর বাবা-মা।

আরও পড়ুন: 


টঙ্গী রেল ক্রসিংয়ের পাশে যুবকের মরদেহ

সিলেট-৩ আসন থেকে নির্বাচিত হাবিবের শপথ গ্রহণ

সিরাজগঞ্জে ট্রাকচাপায় যুবক নিহত

আত্রাই নদীতে গোসলে নেমে স্বামী-স্ত্রী নিখোঁজ


ভিকির ভাই সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে জানান, জিম থেকে বাড়ি ফিরতেই ভিকির বাবা মা তাঁকে জিজ্ঞেস করেন, আরে তোমার তো এনগেজমেন্ট হয়ে গেছে। এবার তাহলে মিষ্টি খাওয়ায়। ভিকি তার উত্তরে বলেন, আসলে যেরকম এনগেজমেন্ট হয়েছে, সেরকমই মিষ্টি খেয়ে নাও।

সানি বলেছেন, আমরা জানি না কোথা থেকে এই গুজব ছড়িয়ে পড়ল। কিন্তু এটা নিয়ে খুবই হাসাহাসি করেছি।

ভিকি কৌশল ও ক্যাটরিনা কাইফের সম্পর্কের কথা ফাঁস হলেও কেউ এ কথা স্বীকার করতে চান না।

তবে প্রায়ই একসঙ্গে দেখা যায় এই যুগলকে। সম্প্রতি শেরশাহ ছবির প্রিমিয়ারেও একসঙ্গে হাজির হয়েছিলেন তাঁরা। এরই মাঝে ক্যাটরিনা ও তাঁর বোন ইসাবেলা কাইফ ছুটি কাটাতে গিয়েছিলেন আলিবাগে, সেখানে তাঁদের সঙ্গে ছিলেন ভিকি ও সানি কৌশল।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

পুরনো দিন গেছে, পুরনো লোকেরাও কবরে

মুম রহমান

পুরনো দিন গেছে, পুরনো লোকেরাও কবরে

বাসার সামনে একটা বিরাট আম গাছ, নারকেল গাছ। এখানে পাখি বসতো। বাসা বানাতো। মূল সড়কের শেষ বাড়িটা আমাদের। অপার সুখে শান্তিতে ছিলাম। আব্বা চলে গেলো। পাশের বাড়ির আঙ্কেল, আন্টিও চলে গেলো দুনিয়া থেকে। পাশের বাড়ির বিরাট চারতলাটিও ভাঙা শুরু হলো। রাস্তার ওপারে বাসার মুখোমুখি চারতলা দুটোও ভাঙা হয়ে গেছে। এখন সেখানে অট্টালিকা উঠছে। ঢাকা শহরে জমির দাম কোটি কোটি টাকা। সেই জমিতে চারতলা পুরনো বাড়ি মানায়? বিশেষত আগের দিনের ডিজাইনের। যারা বানিয়েছেন তারাও তো নেই।

অতএব বিদায় পুরনো স্মৃতি। নতুন করে সাততলা, আটতলা আর দশতলা উঠবে। ঠিক পাশে আর মুখোমুখি কাজ চলছে সারা দিনরাত। হ্যাঁ, সারাদিন রাত। দিনে বিশাল দালানটি ভাঙে, রাতে ট্রাক এসে এইসব ভাঙা টুকরা নিয়ে যায়। অন্যপাশে ট্রাক আসে ইট, রড নিয়ে। ধুমধাম শব্দে জব্দ থাকি সারাদিন রাত।

আরও পড়ুন: 


রাসেলের বাসায় র‌্যাবের অভিযান চলছে

স্ত্রী হত্যার অভিযোগ, স্বামী-শ্বশুর পলাতক

চীনে ১০ কি.মি. গভীরতার শক্তিশালী ভূমিকম্পের হানা

দুবলার চর থেকে খুলনা কাঁকড়া পরিবহনে বাধা নেই: হাইকোর্ট


মাথার ভেতরে সারাদিন রাত হাতুড়ি, গ্রিল কাটার, সিমেন্ট মিক্সার নানা রকম মেশিনের শব্দ। টনটন তরে মাথা ব্যথা করে। মনে হয় বাসা ছেড়ে পালাই। কোনো কোনো রাতে শব্দে মনে হয় পাগল হয়ে যাবো।

একরাতে ৯৯৯ এ ফোন দিলাম। ফোন দিতে চাইনি। কে যাবে ঝামেলায় জড়াতে। যারা এ সব দালানকোঠা বানায় মানে ডেভলাপাররা তারা বড় প্রভাবশালী। তবু না-থাকতে পেরে ভোর চারটায়  ৯৯৯ এ ফোন দিলাম। তারা সদয় হয়ে স্থানীয় থানার ডিউটি অফিসারের ফোন নাম্বার দিলো। কল করলাম, কেউ ধরলো না। সবাই তো আমার মতো ভোররাত নাগাদ জেগে থাকতে বাধ্য নয়। শব্দ দূষণের মতো তুচ্ছ জিনিস নিয়ে কেইবা ভাবে।

আরেকরাতে ২টার দিতে পূর্বের সেই নাম্বারে ফোন দিলাম। এবার ডিউটি অফিসারের দয়া হলো। তিনি টহল পুলিশকে আমার নাম্বার দিলেন। টহল পুলিশ চলে এলো পাঁচমিনিটে। ধমক দিয়ে কাজ বন্ধ করলো। ট্রাক চলে গেলো। আমি আইনের শাসন দেখে তৃপ্ত মনে শুতে গেলাম। পাঁচ মিনিটের মাথায় আবার বিকট শব্দ! আমি বারান্দায় এসে দেখি ট্রাক ফিরে এসেছে। পূর্ণোদ্যমে ভাঙা ইট, শুড়কি, ঢালাইয়ের চাপড় ধুমধাম ফেলা হচ্ছে। টহল পুলিশের নাম্বারে ফোন দিয়ে বললাম, ভাই, আপনারা চোখের আড়াল হতেই তো তারা আবারুরু করেছে। টহল পুলিশ বললেন, বেশিক্ষণ চলবে না। ওদের একটু কাজ জমে আছে। তাড়াতাড়ি করে সরে যাবে। ওরা তাড়াতাড়ি ভোর পার করেই চলে গেলো। আলহামদুলিল্লাহ। শুতে গেলাম। ঘড়িতে পাঁচটা বাজে। শুতে না শুতেই উঠে পড়লাম। দেয়াল, মেঝে ভাঙার শব্দ, আমার দালানটাও কেঁপে উঠছে। ওরা আমার মতো ফাঁকিবাজ নয়, ঠিক সকাল আটটায় কাজ শুরু করেছে। দিনরাত কাজ না করলে তো উন্নতি হয় না। আমার যেমন হয়নি।

কিন্তু আমি বোধহয় উন্নতির বিরুদ্ধে। আমি বোধহয় স্বাভাবিক নই। চলতি হাওয়ার নই। স্মার্ট নই। আমার ভালো লাগে না এই বাড়িগুলো ভাঙন দেখতে। কতো স্মৃতি এখানে। একসাথে এসব বাড়ির মানুষগুলো আমরা বড় হয়েছি। আমাদের বাড়িটাও ভেঙে ফেলবে। এতো এতো আধুনিক ফ্লাটের পাশে আমাদের ছোট্ট বাড়িটাকে বড় বেমানান লাগছে সবার। আমি বাদে সবাই চায় এ বাড়িটাও আধুনিক হোক।

ভাবছি, আমিও আধুনিক হয়ে যাবো। উন্নয়নের রসগোল্লা খাবো। চোখ, কান, মন বন্ধ রাখতে শিখবো। এই দেশে থেকে শব্দ দূষণ, পরিবেশ দূষণ, প্রতিবেশীর সুবিধা-অসুবিধা, বাড়ি নির্মাণ আইনকানুন ইত্যাদিকে বুড়ো আঙুল দেখাতে শিখে যাবো। বেঁচে থাকলে আমিও নির্বিকার জীবন বেছে নেবো। সে জীবনে একটা আমগাছ, একটা নারকেল গাছ, ছোট্ট বারান্দার কী মূল্যই বা আছে! আধুনিক মানুষের জীবন চলুক পার স্কয়ার ফিটের হিসেবে। এখন তো আর সামনের বাড়ি বা পাশের বাড়ি থেকে ইফতারি, হালুয়া, গোস্ত, রুটি আসে না। ও সব পুরনো দিন গেছে। পুরনো লোকেরাও কবরে।

নতুনরা পার স্কয়ারে কতো হাজার পাওয়া যাবে, গ্যােজ সহ ফ্ল্যাট কতো তাই নিয়ে ভাবছে। আমি ভাবছি আমার বাবা, পাশের বাড়ির কাকারা এতো উন্নয়নের ব্রেকিং নিউজ কী কবরে শুয়ে শুনতে পাচ্ছেন!

এ এলাকাটা পানিতে ডোবা ছিলো। বাঁশের সাঁকো পার হয়ে আসতাম। এখানে জমি কেনায় আমার বাবাকে অনেকেই বেকুব বলতো। আব্বা, তুমি বেকুব ছিলে বলেই ঢাকা শহরে নিজের বাড়িতে বাস করতে পারছি। আর জাতি বুদ্ধিমান বলেই নিজের বাড়িতে আমি বিশ্রাম নিতে পারছি না, দুপুরে, রাতে, বিকেল।

নাদের আলি, আর কতো দালান উঠলে আমাদের উন্নতির শেষ হবে?

লেখাটি মুম রহমান-এর ফেসবুক থেকে নেওয়া। (সোশ্যাল মিডিয়া বিভাগের লেখার আইনগত ও অন্যান্য দায় লেখকের নিজস্ব। এই বিভাগের কোনো লেখা সম্পাদকীয় নীতির প্রতিফলন নয়।)

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

আগের স্ত্রীকে তালাক না দিয়েই মাহিকে বিয়ে করেছে রাকিব

অনলাইন ডেস্ক

আগের স্ত্রীকে তালাক না দিয়েই মাহিকে বিয়ে করেছে রাকিব

ঢালিউডের আলোচিত চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। বেশ কিছু দিন থেকেই বিয়ে নিয়ে আলোচনার শীর্ষে এই অভিনেত্রী। প্রথম স্বামীকে ডিভোর্সের পর থেকে গুঞ্জন উঠেছিল গাজীপুরের এক ব্যবসায়ীকে বিয়ে করছেন মাহি। সেই গুঞ্জনই শেষ পর্যন্ত সত্যি হয়েছে। ব্যবসায়ী ও সাবেক ছাত্রলীগ নেতা রাকিব সরকারকেই বিয়ে করেছেন তিনি।

বিয়ের পরে জানা গিয়েছিল রাকিব সরকারের এটিই প্রথম বিয়ে নয়। তার প্রথম স্ত্রী ও সে ঘরে দুটি সন্তানও আছে। তবে এবার রাকিব সম্পর্কে বেড়িয়ে এসেছে আরেকটি চাঞ্চল্যকর তথ্য। আগের স্ত্রীকে তালাক না দিয়েই মাহিকে বিয়ে করেছেন সে। একটি বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেলকে রাকিবের প্রথম স্ত্রী বিষয়টি জানিয়েছেন। তিনি বলেন, রাকিব তাকে না জানিয়েই বিয়ে করেছেন, তিনি মামলা করবেন প্রয়োজনে।

গত রোববার দিবাগত রাতে রাকিবকে বিয়ে করেন ঢাকাই ছবির এই নায়িকা। মাহিয়া মাহি নিজের ফেসবুকে সেদিন লিখে ছিলেন, 'আজ ১৩.০৯.২১ ইং ১২:০৫ মি: আমাদের বিবাহ সম্পন্ন হলো। এর আগের সব কথা আসলেই গুজব ছিলো। সবাই আমাদের জন্য দোয়া করবেন এটাই একমাত্র চাওয়া।'

আরও পড়ুন


আমরা কখনো জানতামও না যে এই সম্পদ আমাদেরই ছিলো

নাশকতার মামলায় নওগাঁর পৌর মেয়র সনিসহ বিএনপির ৩ নেতা কারাগারে

ওহরাহ হজ করতে গেলেন ৭ টাইগার ক্রিকেটার

‘কুইক রেন্টাল’ বিদ্যুৎকেন্দ্র আরও ৫ বছর চালাতে সংসদে বিল পাস


আগের স্বামী অপুর সাথে বিচ্ছেদের পর থেকেই গাজীপুরের ওই ব্যবসায়ীর সাথে মাহির বিয়ের গুঞ্জন ওঠে। সে সময় মাহি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, বিয়ে হয়নি। আমরা কেবল ভালো বন্ধু। এরই মধ্যে মাহি নিজের ফেসবুক পোস্টে লিখেন, ১৩ সেপ্টেম্বর সারপ্রাইজ দেবেন তিনি। শেষ পর্যন্ত সারপ্রাইজ দিলেন রাকিব ও মাহি।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

বাংলাদেশি মিথিলার প্রশংসা করলেন বলিউড নির্মাতা!

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশি মিথিলার প্রশংসা করলেন বলিউড নির্মাতা!

‘মিস ইউনিভার্স বাংলাদেশ ২০২০’ আসরে সেরার মুকুট জিতে আলোচনায় আসেন মডেল-অভিনেত্রী তানজিয়া জামান মিথিলা। তারপর থেকেই নানা ইস্যুতে সামনে এসেছে তার নাম। 

বলিউডে অভিষেকের কারণে আবারও আলোচনায় এলেন মিথিলা। নিজ দেশে অভিনয়ে তেমন একটা সাড়া না পেলেও প্রথম সাড়া পেয়েছিলেন বলিউডে। ২০১৯ সালেই বলিউডের একটি সিনেমায় নাম লেখান এই সুন্দরী। হায়দার খান পরিচালিত ‘রোহিঙ্গা’ সিনেমার কাজ বেশ আগেই শেষ করছিলেন এই মডেল-অভিনেত্রী। কিন্তু সেন্সর বোর্ডের ছাড়পত্রের অপেক্ষায় ছিল তার অভিনীত সিনেমাটি। এতদিন আটকে থাকার পর গত ২৩ আগস্ট সেন্সর বোর্ডের ছাড়পত্র পায়।

মিথিলার প্রশংসা করে নির্মাতা হায়দার খান গণমাধ্যমে বলেন, ‘মিথিলাকে এই চরিত্রটির জন্য নির্বাচন করার সিদ্ধান্তটি একটু কঠিন ছিল। কিন্তু রোহিঙ্গা মেয়ের চরিত্রে দুর্দান্ত অভিনয় করেছেন তিনি।’ আর এই চলচ্চিত্রের মাধ্যমে বলিউডে অভিষেক হচ্ছে মিথিলার। ওটিটি প্ল্যাটফর্মে মুক্তির পরিকল্পনা করেছেন নির্মাতারা।

রোহিঙ্গা এক তরুণী হুসনে আরার চরিত্রে অভিনয় করেছেন মিথিলা। আরাকান ও হিন্দি দুই ভাষায় কথা বলতে দেখা যাবে এই অভিনেত্রীকে।

আরও পড়ুন: 


নামাজ আদায়সহ যেসব আমল আল্লাহর প্রিয়

বার্থ সার্টিফিকেটের মাধ্যমে জানা গেল নুসরাতের ছেলের পিতৃপরিচ‍য়

বান্দরবানে একই পরিবারের তিনজন নিখোঁজ

মন্ত্রিসভায় বড় ধরনের রদবদল করলেন বরিস জনসন


সিনেমা প্রসঙ্গে মিথিলা জানান, এ সিনেমার কাজ করতে গিয়ে অনেক কিছু শিখেছি। আর এই কাজের অভিজ্ঞতা নিঃসন্দেহে ভালো।  

‘রোহিঙ্গা’ সিনেমার চিত্রনাট্য সাজানো হয়েছে মিথিলাকে কেন্দ্র করে। সিনেমায় মিথিলার বিপরীতে অভিনয় করেছেন ‘মিস্টার ভুটান’ স্যাঙ্গে। 

news24bd.tv রিমু  

পরবর্তী খবর

বার্থ সার্টিফিকেটের মাধ্যমে জানা গেল নুসরাতের ছেলের পিতৃপরিচ‍য়

অনলাইন ডেস্ক

বার্থ সার্টিফিকেটের মাধ্যমে জানা গেল নুসরাতের ছেলের পিতৃপরিচ‍য়

কোলকাতার অভিনেত্রী ও সাংসদ নুসরত জাহান। গত জুন মাসে প্রকাশ্যে এসেছিল তার অন্তঃসত্ত্বার খবর। তারপর থেকেই নায়িকার সন্তানের পিতৃপরিচয় নিয়ে তুমুল আলোচনা চলেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। তবে এই বিতর্ককে পাত্তা দেননি তিনি। 

গত ২৬শে অগস্ট পুত্র সন্তানের জননী হন অভিনেত্রী নুসরাত জাহান। অবশেষে প্রকাশ্যে এল তার ছেলের বাবার নাম। কলকাতা পৌরসভার বার্থ সার্টিফিকেটে লেখা রয়েছে নুসরাতের ছেলের বাবার নাম দেবাশিস দাশগুপ্ত। উল্লেখ্য, মাস কয়েক আগেই ভোটের হলফনামা জমা দেওয়ার সময় যশ উল্লেখ করেছিলেন তার প্রকৃত নাম, দেবাশিস দাশগুপ্ত। পৌরসভার রেকর্ড অনুযায়ী, নুসরাত পুত্রের পুরো নাম ঈশান জে (জাহান) দাশগুপ্ত। 

এদিকে, কলকাতা পৌরসভার রেকর্ডে স্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে নুসরাতের সন্তানের বাবা, যশ দাশগুপ্তই।

আরও পড়ুন: 


সরকারি আটায় রুটি তৈরি করা কারখানায় অভিযান চলছে

বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ফজলুল হক আছপিয়া চলে গেলেন

প্রসঙ্গত, গত সপ্তাহেই কলকাতা পৌরসভায় হাজির হয়েছিলেন ‘যশরত’। সেইসময়ই মনে করা হয়েছিল ঈশানের জন্মের সার্টিফিকেটে সংক্রান্ত জট কাটাতেই পৌরসভায় হাজির হয়েছেন নুসরত ও যশ। সেইসময় অবশ্য এ বিষয় নিয়ে মুখ খোলেন নি দু'জন।

news24bd.tv রিমু  

পরবর্তী খবর

নওয়াজউদ্দিনের সাথে বলিউডে অভিষেক হতে যাচ্ছে জয়ার

অনলাইন ডেস্ক

নওয়াজউদ্দিনের সাথে বলিউডে অভিষেক হতে যাচ্ছে জয়ার

দুই বাংলার জনপ্রিয় অভিনেত্রী জয়া আহসানের অভিষেক হতে যাচ্ছে বলিউডে।  জয়া আহসানের বিপরিতে অভিনয় করছেন খ্যাতিমান অভিনেতা নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকীর ।ভারতের আনন্দবাজার পত্রিকা খবরটি নিশ্চিত করেছে।

নির্মাতা সায়ন্তন মুখার্জির একটি হিন্দি ওয়েব সিরিজে জুটিবদ্ধ হচ্ছেন জয়া ও নওয়াজউদ্দিন। আগামী বছরের দুর্গাপুজার আগেই সিরিজটির কাজ সারতে চান নির্মাতা। এটি নির্মিত হবে ১৯৬৭ সালের নকশালবাড়ি আন্দোলন কে কেন্দ্র করে। তৎকালীন বিতর্কিত পুলিশ অফিসার রুণু গুহ নিয়োগীর লেখা ‘সাদা আমি কালো আমি’ উপন্যাস অবলম্বনে বাংলা, হিন্দি, ইংরেজি তিনটি ভাষায় তৈরি হতে চলেছে এই সিরিজ। 

সায়ন্তনের কথায়, ‘এখানে চারু মজুমদার হবেন নওয়াজ। জয়া হবেন তার স্ত্রী লীলা মজুমদার।’


বিয়ে ছাড়াই আবারও মা হচ্ছেন কাইলি জেনার

বলিউড পরিচালক বিশাল ভরদ্বাজের প্রস্তাবে মিমের না!

দেশমাতা, আমাকে কি একটু নিরাপত্তা দিতে পারেন


চলতি বছরের দুর্গাপুজার পরে আরও একঝাঁক তারকার নাম সামনে আনবে সায়ন্তন-অরিন্দম চট্টোপাধ্যায়ের প্রযোজনা সংস্থা সিনেক্স। কলকাতার পাশাপাশি মুম্বাই, কেরালা, অন্ধ্রপ্রদেশ, চীন ও রাশিয়াতে সিরিজটির চিত্রায়ন হবে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর