ব্যাংক হিসাব তলব সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিয়ন্ত্রণের অজুহাত: আ স ম রব

অনলাইন ডেস্ক

ব্যাংক হিসাব তলব সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিয়ন্ত্রণের অজুহাত: আ স ম রব

সাংবাদিক নেতাদের ব্যাংক হিসাব তলবের পদক্ষেপে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে তা প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জেএসডি) সভাপতি আ স ম আবদুর রব। এ ব্যাপারে গণমাধ্যমে এক বিবৃতি পাঠানো হয়।

বিবৃতিতে তিনি বলেন,‌ ‌‘জাতীয় প্রেসক্লাবসহ সাংবাদিকদের গুরুত্বপূর্ণ ও প্রতিনিধিত্বশীল সংগঠনের নির্বাচিত শীর্ষ নেতাদের ব্যাংক হিসাব তলবের ঘটনা অস্বাভাবিক, পরিকল্পিত ও উদ্দেশ্যমূলক এবং তা সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিয়ন্ত্রণের অজুহাত। নৈতিক চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে বা ন্যায় বিচার প্রতিষ্ঠার জন্য বা আইনের শাসনের তাড়নায় সাংবাদিক সমাজের বিরুদ্ধে সরকার এই পদক্ষেপ নিয়েছে তা বিশ্বাসযোগ্য নয়।

আরও পড়ুন: 


রাসেলের বাসায় র‌্যাবের অভিযান চলছে

স্ত্রী হত্যার অভিযোগ, স্বামী-শ্বশুর পলাতক

চীনে ১০ কি.মি. গভীরতার শক্তিশালী ভূমিকম্পের হানা

দুবলার চর থেকে খুলনা কাঁকড়া পরিবহনে বাধা নেই: হাইকোর্ট


ইতোমধ্যে গণমাধ্যমে কর্মরত সাংবাদিকদের গ্রেপ্তার ও নির্যাতন, সংবাদমাধ্যমে অঘোষিত সেন্সরশিপ এবং সর্বোপরি নিবর্তনমূলক ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন দিয়ে মতপ্রকাশের স্বাধীনতাকে সরকার সংকুচিত করে দিয়েছে। সাংবাদিকতা এবং সংবাদপত্র এক নজিরবিহীন প্রতিকূলতার মুখে পড়েছে।

রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ ‘গণমাধ্যমে’র স্বার্থ রক্ষা ও অধিকার আদায়ে সংগ্রামরত সংগঠনগুলোকে প্রশ্নবিদ্ধ করা ও সাংবাদিকতার স্বাধীনতার উপর নতুন করে চাপ সৃষ্টি করার এই অপকৌশলকে অবশ্যই প্রতিহত করতে হবে।

কোনো সাংবাদিক বা ব্যক্তিবিশেষের ব্যক্তিগত দুর্নীতির অবশ্যই তদন্ত হতে পারে কিন্তু যখন গণমাধ্যমের স্বাধীনতা অনেকটাই রুদ্ধ হয়ে পড়েছে, যখন গণমাধ্যম প্রচণ্ড রকমভাবে সংকটগ্রস্ত হয়ে পড়েছে তখন সাংবাদিক নেতাদের ব্যাংক হিসাব তলব করার পদক্ষেপ কোনোক্রমেই ন্যায় সঙ্গত নয়। এসব সিদ্ধান্ত সরকারের চরম অস্থিরতার বহিঃপ্রকাশ। 

সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিয়ন্ত্রণের দুরভিসন্ধিমূলক পদক্ষেপ অবশ্যই প্রত্যাহার করতে হবে।

সংবাদপত্রের স্বাধীনতাবিহীন সমাজে চরম রাজনৈতিক অস্থিরতা বাড়বে, সাংস্কৃতিক বিচ্ছিন্নতাবোধ গভীর হবে এবং অর্থনৈতিক সংকট সমগ্র রাষ্ট্রব্যবস্থাকে ঝুঁকিপূর্ণ করে তুলবে।

দুর্নীতি সন্ত্রাস মোকাবেলায় ও রাষ্ট্রকে গণতান্ত্রিক ও মানবিক করার প্রয়োজনে গণমাধ্যমের ভূমিকা অপরিহার্য।

যতদিন রাষ্ট্রীয় নীতি নির্ধারণে সাংবাদিকসহ পেশাজীবীদের অংশগ্রহণ নিশ্চিত না হবে ততদিন পর্যন্ত সাংবাদমাধ্যমের উপর নির্বতন চলতেই থাকবে। তাই আইন প্রণয়ন ও নীতি নির্ধারণী প্রক্রিয়ায় সাংবাদিকসহ পেশাজীবীদের অংশগ্রহণ সাংবিধানিকভাবে নিশ্চিত করতে হবে।

সুতরাং রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ অর্থাৎ গণমাধ্যমের স্বাধীনতা রক্ষায় সাংবাদিকসহ সকলকে সোচ্চার ভূমিকা গ্রহণ করতে হবে।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর

মেয়র আতিকুলের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলা খারিজ

অনলাইন ডেস্ক

মেয়র আতিকুলের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলা খারিজ

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলামের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা খারিজ করে দিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আস সামছ জগলুল হোসেনের আদালতে এ মামলাটি করেন রাজধানীর ভাষানটেক পুনর্বাসন প্রকল্পের রূপকার মো. আব্দুর রহিম। এরপর আদালত বাদীর জবানবন্দি গ্রহণ করেন। কিন্তু মামলা নেওয়ার মতো কোনো উপাদান না থাকায় এটি খারিজ করে দেন আদালত।

সাইবার ট্রাইব্যুনালের পেশকার শামীম আল মামুন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন:


পিএসসির প্রশ্ন ফাঁস করলে ১০ বছরের জেল: মন্ত্রিপরিষদ সচিব

গাজীপুর সাফারি পার্কে জেব্রা পরিবারে নতুন অতিথি

‘সংখ্যালঘু’ শব্দটি থাকা উচিত না

পায়রা সেতুর উদ্বোধন ২৪ অক্টোবর

এর আগে, মো. আব্দুর রহিম নামের এক ব্যক্তি আজ মঙ্গলবার ঢাকা সাইবার ট্রাইব্যুনালে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন-২০১৮ এর ২৫/২৯ ধারায় মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার এজাহারে মেয়র আতিকুলের বিরুদ্ধে বাদীর সম্পত্তি দখল, বিভিন্ন মিডিয়ায় ডিজিটাল ডিভাইসের মাধ্যমে বাদী ও তার পরিবারের সম্পর্কে আক্রমণাত্মক, মিথ্যা, ভীতি প্রদর্শক ও মানহানীকর তথ্য প্রকাশের অভিযোগ আনা হয়েছিল।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

শপথ নিলেন স্থায়ী নিয়োগ পাওয়া ৯ বিচারপতি

অনলাইন ডেস্ক

শপথ নিলেন স্থায়ী নিয়োগ পাওয়া ৯ বিচারপতি

সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে অতিরিক্ত বিচারপতি হিসেবে স্থায়ী নিয়োগ পাওয়া ৯ বিচারপতি শপথ নিয়েছেন। আজ সকাল ১১টার দিকে সুপ্রিম কোর্টের জাজেস লাউঞ্জে শপথ অনুষ্ঠানটি অনুষ্ঠিত হয়।

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন স্থায়ী বিচারপতি হিসেবে শপথবাক্য পাঠ করান। এসময় ৯ বিচারপতির স্ত্রী, সন্তানরা জাজেস লাউঞ্জে উপস্থিত ছিলেন।

শপথ নেওয়া বিচারপতিরা হলেন- বিচারপতি মুহম্মদ মাহবুব-উল ইসলাম, বিচারপতি শাহেদ নূরউদ্দিন, বিচারপতি মো. জাকির হোসেন, বিচারপতি মো. আখতারুজ্জামান, বিচারপতি মো. মাহমুদ হাসান তালুকদার, বিচারপতি কাজী ইবাদত হোসেন, বিচারপতি কে এম জাহিদ সারওয়ার, বিচারপতি এ কে এম জহিরুল হক ও বিচারপতি কাজী জিনাত হক।

এর আগে, রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে সোমবার (১৮ অক্টোবর) আইন বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বরত সচিব মো. গোলাম সারওয়ারের স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এই নিয়োগ দেওয়া হয়।

# হাইকোর্টের স্থায়ী বিচারপতি হলেন ৯ জন

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

হাইকোর্টের স্থায়ী বিচারপতি হলেন ৯ জন

অনলাইন ডেস্ক

হাইকোর্টের স্থায়ী বিচারপতি হলেন ৯ জন

সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে ৯ জন অতিরিক্ত বিচারপতিকে স্থায়ী বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে সোমবার (১৮ অক্টোবর) আইন বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বরত সচিব মো. গোলাম সারওয়ারের স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এই নিয়োগ দেওয়া হয়।

স্থায়ী হওয়া বিচারপতিরা হলেন- বিচারপতি মুহম্মদ মাহবুব-উল ইসলাম, বিচারপতি শাহেদ নূরউদ্দিন, বিচারপতি মো. জাকির হোসেন, বিচারপতি মো. আখতারুজ্জামান, বিচারপতি মো. মাহমুদ হাসান তালুকদার, বিচারপতি কাজী ইবাদত হোসেন, বিচারপতি কে এম জাহিদ সারওয়ার, বিচারপতি এ কে এম জহিরুল হক ও বিচারপতি কাজী জিনাত হক।

বিস্তারিত আসছে...

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

কিউকমের আরজে নিরব ও রিপন মিয়া ফের রিমান্ডে

অনলাইন ডেস্ক

কিউকমের আরজে নিরব ও রিপন মিয়া ফের রিমান্ডে

ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান কিউকমের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) রিপন মিয়ার দুইদিন ও হেড অব সেলস (কমিউনিকেশন অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন) অফিসার হুমায়ুন কবির ওরফে আরজে নিরবের একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

সোমবার (১৮ অক্টোবর) বিকেলে শুনানি শেষে এই রিমান্ডের আদেশ দেন ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মাসুদ উর রশিদের আদালত।

আরও পড়ুন:


ইভ্যালিকে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে রূপান্তরের সর্বোচ্চ চেষ্টা করব: বিচারপতি মানিক

করোনা: দেশে ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু কমলেও বেড়েছে শনাক্ত

প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় কলেজছাত্রকে অপহরণ করে বিয়ে করলো তরুণী!

ডিএমপি কমিশনার ও র‍্যাব ডিজি’র পদোন্নতি


বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন লালবাগ থানার আদালতের সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা এসআই হেলাল উদ্দিন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

১৩ বছর পর হত্যা মামলার রায়ে যুবকের মৃত্যুদণ্ড

অনলাইন ডেস্ক

১৩ বছর পর হত্যা মামলার রায়ে যুবকের মৃত্যুদণ্ড

কিশোরগঞ্জে কৃষক বাচ্চু মিয়া হত্যা মামলায় জসিম উদ্দিন (৩৫) নামের একজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় আদালত চারজনকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন।

আজ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ নার্গিস ইসলাম এ রায় ঘোষণা করেন। 

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত জসিম উদ্দিন, কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার কর্শা কড়িয়াইল ইউনিয়নের মনাকর্শা গ্রামের আবদুল মজিদের ছেলে।

মামলার এজাহার ও আদালত সূত্রে জানা গেছে, মনাকর্শা গ্রামের জসিম উদ্দিনের সঙ্গে পুকুরে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে বিরোধ ছিল একই এলাকার কৃষক বাচ্চু মিয়ার। ২০০৮ সালের ১৫ সেপ্টেম্বর বিকালে  বাচ্চু মিয়া স্থানীয় বাজারে ধান বিক্রি করতে যাচ্ছিলেন। এ সময় জসিম উদ্দিন ও তার ভাইয়েরা রাস্তায় বাচ্চু মিয়াকে কুপিয়ে হত্যা করেন।

আরও পড়ুন:


ইভ্যালিকে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে রূপান্তরের সর্বোচ্চ চেষ্টা করব: বিচারপতি মানিক

করোনা: দেশে ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু কমলেও বেড়েছে শনাক্ত

প্রেমের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করায় কলেজছাত্রকে অপহরণ করে বিয়ে করলো তরুণী!

ডিএমপি কমিশনার ও র‍্যাব ডিজি’র পদোন্নতি


এ ঘটনায় ঐদিন রাতেই বাচ্চু মিয়ার বড় ভাই হারুনুর রশীদ বাদী হয়ে ছয়জনকে আসামি করে কিশোরগঞ্জ মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। তদন্ত শেষে ২০১০ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি পাঁচজনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করে পুলিশ। দীর্ঘ ১৩ বছর পর এ রায় দেন বিচারক। 

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর