শুরু হচ্ছে টরন্টো ৪র্থ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল

লায়লা নুসরাত, কানাডা

শুরু হচ্ছে টরন্টো ৪র্থ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল

কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি চলচ্চিত্রসেবীদের সংগঠন টরন্টো ফিল্ম ফোরাম আয়োজিত ৪র্থ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল, টরন্টো-২০২১ আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর শুরু হচ্ছে । করোনাপরিস্থিতির কারনে এবারের চলচ্চিত্র উৎসব অনলাইন এ অনুষ্ঠিত হবে। ৬ দিনের এই উৎসব আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর শেষ হবে। 

গত শুক্রবার ৩০০০ ড্যানফোর্থ এভিনিউ’র ৪ নং ইউনিটের টরন্টো ফিল্ম ফোরাম এর মাল্টিকালচারাল ফিল্ম স্ক্রীনিং সেন্টারে এক ‘মিট দ্য প্রেস’ এ ফোরামের সভাপাতি এনায়েত করিম বাবুল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল সম্পর্কীত বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন। 

ফিল্ম ফোরামের সভাপাতি এনায়েত করিম বাবুল সাংবাদিকদের জাজান, টরন্টো ফিল্ম ফোরাম প্রতি বছর কানাডার দ্বিতীয় প্রাচীনতম প্রেক্ষাগৃহ ২২৩৬ কুইন স্ট্রীট ইস্টের ‘ফক্স থিয়েটার’ এ মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আয়োজন করে। করোনাজনিত বিধি নিষেধের কারণে এবার এ উৎসব অনলাইনে করতে হচ্ছে।

তিনি জানান, এ বছর ১২৩টি দেশের প্রায় সাড়ে তিন হাজার প্রামাণ্য চলচ্চিত্র, স্বল্প দৈর্ঘ্য কাহিনী চলচ্চিত্র এবং পূর্ণ দৈর্ঘ্য কাহিনী ফেস্টিভ্যালে দেখানোর জন্য জমা পড়েছে। জমাকৃত চলচ্চিত্র থেকে বাছাই করে ১১০টি দেশের ৩০০টি বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র দর্শকদের জন্য উৎসবের ছয় দিন উন্মুক্ত থাকবে। এনায়েত করিম বাবুল উল্লেখ করেন, ছয় দিনের উৎসবের দ্বিতীয় দিন অর্থাৎ ২৪শে সেপ্টেম্বর থাকবে ‘কানাডা প্যানারোমা’ যে দিন শুধু মাত্র কানাডার ৩২টি বিভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র দেখানো হবে। 

সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে ফিল্ম ফোরাম সভাপতি জানান, ছয় দিনব্যাপী এই চলচ্চিত্র উৎসবের ছবিগুলো দেখার জন্য দর্শকদের কোন অর্থ ব্যয় বা রেজিস্ট্রেশন করতে হবে না। চলচ্চিত্র উৎসবের ছবিগুলো দেখার ওয়েব সাইট লিংক এ ক্লিক করলেই যে কেউ পৃথিবীর যে কোন প্রান্ত থেকে বিশেষ দিনের চলচ্চিত্রগুলো উপভোগ করতে পারবেন।

রও পড়ুন:

ধীর জীবন মানেই অলস জীবন নয়

একটি হটডগ আয়ু কমাতে পারে ৩৬ মিনিট পর্যন্ত!

ইভ্যালি ধরলেও সমস্যা, ছাড়লেও সমস্যা! কোথায় যাবেন ফারিয়া?

তৃতীয় স্বামীর কাছে শুধু বিচ্ছেদই নয়, খরচও চাইলেন শ্রাবন্তী


উল্লেখ্য, কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশী স্বাধীন চলচ্চিত্র নির্মাতা এবং চলচ্চিত্রপ্রেমীদের উদ্যেগে ২০১৪ সালে টরন্টোতে টরন্টো ফিল্ম ফোরাম গঠিত হয়। এই ফোরাম গঠনের একটি প্রধানতম লক্ষ্য ছিল, পৃথিবীর বহুজাতিক স্বাধীন এবং বিকল্পধারার চলচ্চিত্র নির্মাতাদের চলচ্চিত্রের প্রদর্শন করা। মাল্টিকালচারাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল আয়োজনের মধ্য দিয়ে টরন্টো ফিল্ম ফোরামের সদস্যরা মনে করেন, বহু ভাষা ও বহু জাতির মানুষের সৌহার্দ্যপূর্ণ সহাবস্থানই পারে আমাদের এই পৃথিবীকে আরও সুন্দর ও শান্তিময় করে তুলতে। 

ফোরামের সভাপতি ছাড়াও উপস্থিত সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তর দেন সংগঠনটির কার্যকরী সদস্য ফয়েজ নুর ময়না, চলচ্চিত্র স্ক্রীনিং সম্পাদক রেজিনা রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক জগলুল আজিম রানা এবং সাধারণ সম্পাদক মনিস রফিক।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

মাওলানা আজহারীর লন্ডন সফরের পক্ষে বিপক্ষে নানা তৎপরতা

অনলাইন ডেস্ক

মাওলানা আজহারীর লন্ডন সফরের পক্ষে বিপক্ষে নানা তৎপরতা

বিতর্কিত ইসলামী বক্তা মিজানুর রহমান আজহারীকে যুক্তরাজ্যে ঢুকতে দেয়নি দেশটির হোম অফিস। লন্ডনে 'আই অন টিভি'র আমন্ত্রণে আগামী ৩১ অক্টোবর একটি ইসলামী কনফারেন্সে যোগ দেওয়ার কথা ছিল তাঁর।

আজহারীর যুক্তরাজ্যে আসার সংবাদে ক্ষুব্ধ ছিলেন যুক্তরাজ্যের প্রগতিশীল রাজনীতি, মানবাধিকার কর্মী ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বরা।

জানা গেছে, মিজানুর রহমান আজহারী মঙ্গলবার (২৬ অক্টোবর) রাতে মালয়েশিয়া থেকে কাতার বিমানবন্দরে পৌঁছানোর পর যখন আজহারী লন্ডনের ফ্লাইটে ওঠার জন্য সংশ্লিষ্ট গেটে আসেন তখনই সেখান থেকে তাঁর ব্রিটেনে আসার ফ্লাইটে উঠতে দে‌ওয়া হয়নি। কেন তাঁকে এই ফ্লাইটে উঠতে দে‌ওয়া হয়নি, অথবা তাঁর ভিসা বাতিল করা হয়েছে কি না এ সম্পর্কে এখনো কোনো তথ্য জানা যায়নি। 

সর্বশেষ খবর অনুযায়ী কাতার বিমানবন্দর থেকেই গত ১০-১২ ঘণ্টা ধরে চেষ্টা করা হচ্ছে সমস্যা সমাধানের। 

জানা গেছে, মিজানুর রহমান আজহারী মালয়েশিয়া থেকে ব্রিটেনে একটি টিভির আমন্ত্রণে আসছিলেন। আগামী ৩১ অক্টোবর রবিবার থেকে লন্ডনসহ ব্রিটেনের ৫টি শহরে ইসলামী বক্তব্যের আয়োজন করা হয় ব্রিটেনের একটি টিভির পক্ষ থেকে। 

আজহারী আসার খবরের পর থেকেই কমিউনিটিতে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। অনেকেই আয়োজক টিভির ব্যানারে আজহারীর আগমনকে স্বাগত জানিয়েছেন আবার একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি থেকে শুরু করে প্রগতিশীল ও মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষের অনেক মানুষ আজহারীর সফরের বিরোধিতা করে আসছিলেন। ব্রিটিশ এমপি থেকে শুরু করে হোম অফিসসহ বিভিন্ন সংশ্লিষ্ট জায়গায় মিজানুর রহমান আজহারীর বিভিন্ন বক্তব্য, যেখানে ধর্মীয়ভাবে অন্য ধর্মকে আঘাত করা হয়েছে, যেসব বক্তব্য ঘৃণা ছড়ায়, এমন সব ভিডিও পাঠানো হয়েছে।

আরও পড়ুন:


পাগলীর জন্ম নেওয়া সন্তানের পিতা এমপি বদি

টস জিতে ফিল্ডিংয়ে পাকিস্তান

শোয়েব মালিককে ‘দুলাভাই’ ‘দুলাভাই’ বলে ডাকল ভারতীয় দর্শকরা (ভিডিও)

সফর বাতিল হওয়ার বিষয়ে আয়োজক টিভির সিইওর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তিনি ফোন ধরেননি। এ ছাড়া টেক্সট পাঠানো হলেও তার কোনো উত্তর পাওয়া যায়নি।

এ ছাড়া মিজানুর রহমানের মালয়েশিয়ার হোয়াটসঅ্যাপ নম্বরে যোগাযোগ করা হলেও কোনো উত্তর পাওয়া যায়নি।

news24bd.tv/তৌহিদ

পরবর্তী খবর

প্রবাসীদের জন্য যে সুখবর দিল মালয়েশিয়া

অনলাইন ডেস্ক

প্রবাসীদের জন্য যে সুখবর দিল মালয়েশিয়া

করোনাকালে যারা মালয়েশিয়া থেকে ছুটি নিয়ে নিজ দেশে গিয়ে আটকা পড়েছেন তাদের জন্য সুখবর।

আগামি ১ নভেম্বর থেকে মালয়েশিয়ার ইমিগ্রেশন ডিপার্টমেন্ট অনুমোদন ছাড়াই সরাসরি মালয়েশিয়ায় ঢুকতে পারবেন আটকে পড়া ব্যক্তিরা।

বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানান দেশটির অভিবাসন বিভাগের মহাপরিচালক দাতুক খায়রুল যাইমি দাউদ।

এতে বলা হয়েছে, কূটনীতিক ভিসাধারী, পেরোল পাস, রেসিডেন্ট পাস, ইখতিসাস ভিজিট পাস, ইখতিসাস ট্রিপ পাস, স্থায়ী বাসিন্দা ও তাদের পোষ্য, দীর্ঘমেয়াদী পাস (স্বামী/স্ত্রী/সন্তান), সিনিয়র সিটিজেন পাস, পাস বালু, শিক্ষার্থী, মাই সেকেন্ড হোম, বিদেশি গৃহকর্মী, রেসিডেন্ট পাস, অস্থায়ী জব পাস (পিএলকেএস), বিদেশি বাড়ির দাসী, ট্যুরিস্ট, মেয়াদউত্তীর্ণ দীর্ঘমেয়াদী জব পাস ভিসাধারীদের প্রবেশে অনুমতি দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন:


পাগলীর জন্ম নেওয়া সন্তানের পিতা এমপি বদি

টস জিতে ফিল্ডিংয়ে পাকিস্তান

শোয়েব মালিককে ‘দুলাভাই’ ‘দুলাভাই’ বলে ডাকল ভারতীয় দর্শকরা (ভিডিও)

কিছুদিন আগেও যেখানে সাধারণ কর্মীরা মালয়েশিয়ায় প্রবেশ করতে চাইলে মাই ট্রাভেল পাসে আবদেন করে অভিবাসন বিভাগের নির্ধারিত বিভিন্ন শর্তগুলো মানার পরও বেগ পোহাতে হতো। এসব ঝামেলা এড়াতে মালয়েশিয়াস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনের পক্ষ থেকে প্রবাসী বাংলাদেশিদের ফেরাতে দীর্ঘ তৎপরতা চালানোর পর অবশেষে দেশটির মানবসম্পদ মন্ত্রী এ নিয়ে ইতিবাচক সাড়া দেওয়ার পর নতুন এ ঘোষণায় এখন থেকে কোনো ধরনের পূর্ব অনুমতি ছাড়াই সরাসরি মালয়েশিয়া ঢোকার অনুমতি পাচ্ছেন বাংলাদেশসহ বিভিন্ন দেশে আটকে পড়া সাধারণ কর্মীরা।

news24bd.tv/তৌহিদ

পরবর্তী খবর

অস্ট্রিয়ায় হিন্দু কমিউনিটির মানববন্ধন ও প্রতিবাদ র‍্যালী

হাসান তামিম, অস্ট্রিয়া

অস্ট্রিয়ায় হিন্দু কমিউনিটির মানববন্ধন ও প্রতিবাদ র‍্যালী

বাংলাদেশে হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর হামলা, ধর্ষণ ও সহিংসতা বন্ধের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ র‍্যালী করেছে হিন্দু কমিউনিটি অস্ট্রিয়া। 

বুধবার সকালে ভিয়েনাস্থ জাতিসংঘ সদর দপ্তরের সামনে মানববন্ধনে যোগ দেন অস্ট্রিয়ায় বসবাসরত হিন্দু ধর্মাবলম্বীসহ সর্বস্তরের জনগন। মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারীরা  বাংলাদেশে সাম্প্রতিক সময়ে হিন্দু বাড়িতে আক্রমণ, প্রতিমা ভাংচুর এবং নির্যাতনের তীব্র নিন্দা ও দোষীদের দ্রুত গ্রেফতারের আহবান জানানো হয়। এছাড়াও হিন্দু কমিউনিটি অস্ট্রিয়ার পক্ষ থেকে জাতিসংঘ সদর দপ্তরে বাংলাদেশে হিন্দু নির্যাতন বন্ধের দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়। 

মানববন্ধন শেষে হিন্দু কমিউনিটি অস্ট্রিয়ার পক্ষ থেকে এক প্রতিবাদ র‍্যালীর আয়োজন করা হয়। প্রতিবাদ র‍্যালীটি ভিয়েনাস্থ বাংলাদেশ দূতাবাসে এসে শেষ হয়। মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারীরা বাংলাদেশ দূতাবাসের দূতালয় প্রধান তারাজুল ইসলামের নিকট  স্মারকলিপি হস্তান্তর করেন। 

মানববন্ধন ও প্রতিবাদ র‍্যালীতে অংশগ্রহণকারীরা তাদের বক্তব্যে বলেন, বাংলাদেশের হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর হামলা বেড়েই চলছে। এছাড়া পূর্বেও হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের হামলার কোন বিচার হয়নি। বাংলাদেশ সরকারের উচিত হিন্দু সম্প্রদায়ের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা এবং হামলাকারীদের দ্রুত গ্রেফতার করে বিচার সুনিশ্চিত করা। 

পরবর্তী খবর

ট্রুডোর নেতৃত্বে ৩৯ সদস্যের মন্ত্রিসভার শপথ গ্রহণ

অনলাইন ডেস্ক

ট্রুডোর নেতৃত্বে ৩৯ সদস্যের মন্ত্রিসভার শপথ গ্রহণ

২৬ অক্টোবর মঙ্গলবার অটোয়ার রিডিও হলে কানাডার গভর্নর জেনারেল মেরী সাইমনের উপস্থিতিতে কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর নেতৃত্বে ৩৯ সদস্যবিশিষ্ট কানাডার নতুন মন্ত্রিসভা শপথ গ্রহণ করে। 

কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো তার মন্ত্রিসভার তালিকাতে গুরুত্বপূর্ণপদে যেমন প্রতিরক্ষা, স্বাস্থ্য, পররাষ্ট্র এবং পরিবেশসহ মূল মন্ত্রিসভাগুলোতে নতুন মন্ত্রীদের নামকরণ করেছেন। 

কানাডার কেবিনেট বা মন্ত্রীদের তালিকায় আছেন- কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো, কানাডার উপ-প্রধানমন্ত্রী ও অর্থমন্ত্রী ক্রিস্টিয়া ফ্রিল্যান্ড, পরিবহন মন্ত্রী ওমর আলগাবরা, জাতীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী অনিতা আনন্দ, মানসিক স্বাস্থ্য এবং আসক্তি মন্ত্রী এবং স্বাস্থ্যের সহযোগী মন্ত্রী ক্যারোলিন বেনেট, কৃষি ও কৃষি-খাদ্য মন্ত্রী মারি-ক্লদ বিবেউ, কানাডার কুইন্স প্রিভি কাউন্সিলের সভাপতি এবং জরুরী প্রস্তুতির মন্ত্রী বিল ব্লেয়ার, পর্যটন মন্ত্রী এবং অর্থমন্ত্রী র্যা ন্ডি বোয়সনল্ট, উদ্ভাবন, বিজ্ঞান ও শিল্পমন্ত্রী ফ্রাঁসোয়া-ফিলিপ শ্যাম্পেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী জিন-ইভেস ডুকলোস, ট্রেজারি বোর্ড প্রেসিডেন্ট মোনা ফোর্টিয়ার, অভিবাসন, শরণার্থী এবং নাগরিকত্ব মন্ত্রী শন ফ্রেজার,  পরিবার, শিশু ও সামাজিক উন্নয়ন মন্ত্রী কারিনা গোল্ড, পরিবেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী স্টিভেন গিলবল্ট, আদিবাসী পরিষেবা এবং উত্তর অন্টারিও ফেডারেল অর্থনৈতিক উন্নয়ন সংস্থার জন্য দায়ী মন্ত্রী প্যাটি হাজদু, হাউস অফ কমন্সে সরকারের নেতা মার্ক হল্যান্ড,

আরও পড়ুন:

সব ধর্মের মানুষের জন্য মাদ্রাসা উন্মুক্ত করে দেওয়া হোক : জাফরুল্লাহ

৬ শিশুকে বলাৎকারের অভিযোগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা সাময়িক বহিস্কার

ইংল্যান্ড ম্যাচের আগে টাইগার শিবিরে বড় দুটি দুঃসংবাদ


 

আবাসন ও বৈচিত্র্য ও অন্তর্ভুক্তি মন্ত্রী আহমেদ হুসেন, গ্রামীণ অর্থনৈতিক উন্নয়ন মন্ত্রী গুডি হাচিংস, নারী, লিঙ্গ সমতা ও যুব মন্ত্রী মার্সি আইন, দক্ষিণ অন্টারিও জন্য ফেডারেল অর্থনৈতিক উন্নয়ন সংস্থার জন্য দায়ী মন্ত্রী হেলেনা জ্যাকজেকের, পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেলানি জোলি, সিনিয়র মন্ত্রী কমল খেরা, কানাডার বিচারমন্ত্রী এবং অ্যাটর্নি জেনারেল; ডেভিড ল্যামেটি, আন্তঃসরকার বিষয়ক, অবকাঠামো এবং সম্প্রদায়ের মন্ত্রী ডমিনিক লেব্লাঙ্ক, জাতীয় রাজস্ব মন্ত্রী ডায়ান লেবুথিলিয়ার,  ভেটেরান্স বিষয়ক মন্ত্রী এবং জাতীয় প্রতিরক্ষার সহযোগী মন্ত্রী লরেন্স ম্যাকওলে, জননিরাপত্তা মন্ত্রী মার্কো মেন্ডিসিনো, ক্রাউন-আদিবাসী সম্পর্ক মন্ত্রী মার্ক মিলার, মৎস্য, মহাসাগর এবং কানাডিয়ান কোস্ট গার্ড মন্ত্রী জয়েস মারে,  আন্তর্জাতিক বাণিজ্য, রপ্তানি উন্নয়ন, ক্ষুদ্র ব্যবসা ও অর্থনৈতিক উন্নয়ন মন্ত্রী মেরি এনজি, শ্রমমন্ত্রী সিমাসও রেগান, সরকারী ভাষা মন্ত্রী এবং আটলান্টিক কানাডা সুযোগ সংস্থার জন্য দায়ী মন্ত্রী জিনেট পেটিটপাস টেলর, কর্মসংস্থান, কর্মশক্তি উন্নয়ন এবং প্রতিবন্ধী অন্তর্ভুক্তি মন্ত্রী কার্লা কোয়ালট্রো, কানাডিয়ান হেরিটেজ এবং কুইবেকের মন্ত্রী লেফটেন্যান্ট পাবলো রদ্রিগেজ, আন্তর্জাতিক উন্নয়ন মন্ত্রী এবং কানাডার প্যাসিফিক ইকোনমিক ডেভেলপমেন্ট এজেন্সির দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী হারজিত সজ্জন,  ক্রীড়া মন্ত্রী এবং কুইবেক প্যাস্কেল সেন্ট-ওঞ্জ অঞ্চলের জন্য কানাডার অর্থনৈতিক উন্নয়ন সংস্থার জন্য দায়ী মন্ত্রী পাসকেল সেন্ট-অনগে, পাবলিক সার্ভিস ও প্রকিউরমেন্ট মন্ত্রী ফিলোমেনা তাসি, উত্তর বিষয়ক মন্ত্রী, কানাডিয়ান নর্দান ইকোনমিক ডেভেলপমেন্ট এজেন্সির দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী ড্যান ভ্যান্ডাল এবং প্রাকৃতিক সম্পদ মন্ত্রী জনাথন উইলকিনসন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

মালদ্বীপ ইন্টারন্যাশনাল পিস অ্যাওয়ার্ড পেলেন ১৩ বাংলাদেশি

অনলাইন ডেস্ক

মালদ্বীপ ইন্টারন্যাশনাল পিস অ্যাওয়ার্ড পেলেন ১৩ বাংলাদেশি

সম্প্রতি প্রবাল দ্বীপমালার দেশ মালদ্বীপের রাজধানী মালেতে ন্যাশনাল আর্ট গ্যালারিতে মালদ্বীপ ইন্টারন্যাশনাল পিস অ্যাওয়ার্ড বিতরণী অনুষ্ঠানে সম্মেলন সাফল্যের সঙ্গে শেষ হয়েছে। সম্মেলনে বিভিন্ন ইভেন্টে ১৩ বাংলাদেশীকে পদক তুলে দেন মালদ্বীপের মিস্টার অফ এসটেজ কালচার অফ হ্যারিটেইজ মো. তারিক।

অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন এস্টেট মিনিস্টার মো. আকরাম, ডিরেক্টর অব ইন্ডিয়ান আর্ট কালচারার (বাই আই সি সি আর) হাইকমিশনার ড. সায়দা তারভির নাসরিন। প্রদর্শনীতে ৯০টা পেন্টিং ছিল। এতে ৩০ দেশের শিল্পীরা  অংশগ্রহণ করেন।
অনুষ্ঠানে বাংলাদেশি বিভিন্ন ইভেন্টে পদক গ্রহণ করেন শাওন চৌধুরি, আরিফুল ইসলাম জিয়া, ডক্টর হামিদা খানম, রাজিয়া সুলতানা ইতি, নার্গিস, অলিউর রহমান, হাফিজুর রহমান, প্রফেসর ড. রতন চন্দ্র সাহা, আব্দুল্লাহেল বাবলু,মোহাম্মদ সাদিউ জামান, স্বপন মিয়া (শাহরিয়ার স্বপন), শামসুল আলম ও মোহাম্মদ দেলোয়ার হোসেন।

আরও পড়ুন:


পাগলীর জন্ম নেওয়া সন্তানের পিতা এমপি বদি

টস জিতে ফিল্ডিংয়ে পাকিস্তান

শোয়েব মালিককে ‘দুলাভাই’ ‘দুলাভাই’ বলে ডাকল ভারতীয় দর্শকরা (ভিডিও)

উল্লেখ্য, মালদ্বীপস ইন্টারন্যাশনাল পিস অ্যাওয়ার্ড-২১এর বিভিন্ন ইভেন্টে পদক গ্রহণ করার জন্য বাংলাদেশ থেকে প্রতিনিধি দলটি ২২ অক্টোবর মালদ্বীপে আসে। এই প্রতিনিধি দলের ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজার হিসেবে কাজ করেন রাজশাহী আর্ট কলেজের প্রভাষক নারগিস পারভীন (সোমা)।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর