ভুল চিকিৎসায় পুরুষত্বহীন হতে হলো যুবককে

অনলাইন ডেস্ক

ভুল চিকিৎসায় পুরুষত্বহীন হতে হলো যুবককে

চিকিৎসকের ভুল চিকিৎসায় এক যুবকের ভবিষ্যৎ অস্তিত্ব অন্ধকারে হারিয়ে যেতে বসেছে। ওই চিকিৎসকের ভুলে যুবক তার পুরুষত্বের শক্তি হারিয়ে ফেলেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। গোপন শারীরিক জটিলতার চিকিৎসা নিতে গিয়ে তিনি ওই হাসপাতালে যান।

সংশ্লিষ্টদের আশঙ্কা, এই ঘটনার ফলে ভুক্তভোগী যুবক আর বাবা হতে পারবেন না। এমন পরিস্থিতিতে নারায়ণগঞ্জের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কাউছার আলমের আদালতে ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে অভিযোগ দাখিল করেন ভুক্তভোগী যুবক। পরে সেই অভিযোগকে আদালত মামলা হিসেবে গ্রহণ করতে ২৪ ঘণ্টা সময় বেঁধে দিলে নির্দেশনা মোতাবেক ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই অভিযোগটিকে এফআইআর হিসেবে গ্রহণ করে থানা পুলিশ।

তথ্য অনুযায়ী মামলা হিসেবে গ্রহণ হলেও আজ মঙ্গলবার পর্যন্ত দুই আসামীর কেউই গ্রেপ্তার হয়নি।

মামলার তথ্য অনুযায়ী- ভুক্তভোগী যুবকের অভিযোগ ডা: মো: মহব্বত উল্লাহ’র বিরুদ্ধে। তিনি নারায়ণগঞ্জের মেডিনোভা মেডিকেল সার্ভিস সেন্টারে চেম্বার করেন। এছাড়াও একই প্রতিষ্ঠানের জেনারেল ম্যানেজার হেমায়েত হোসেন হিমেলকেও সেই মামলায় আসামী করা হয়েছে।

আদালত সূত্রে জানা যায়, ভুক্তভোগী  অভিযোগ করেন- ভুল চিকিৎসায় তার শরীরে এবং গোপনাঙ্গে সাধারণ ও গুরুতর জখম হয়। বাদীর শরীরের বিভিন্ন অংশ ঝলসে যায় এবং ক্ষত সৃষ্টি হয়।

ম্যাজিস্ট্রেটের নির্দেশ অনুযায়ী নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার ওসি সংশ্লিষ্ট মামলা রেকর্ড করেন। এদিকে এ ঘটনায় সিভিল সার্জনের নেতৃত্বে একটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করা হয়। আদালত আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর পুলিশকে এই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে বলেছে।

news24bd.tv/এমি-জান্নাত    

পরবর্তী খবর

সম্রাট-খালেদ-সাঈদের বিরুদ্ধে অর্থপাচারের প্রমাণ পেয়েছে সিআইডি

নিজস্ব প্রতিবেদক

সম্রাট-খালেদ-সাঈদের বিরুদ্ধে অর্থপাচারের প্রমাণ পেয়েছে সিআইডি

যুবলীগের বহিষ্কৃত নেতা ইসমাইল হোসেন চৌধুরী সম্রাট, খালেদ মাহমুদ ভুঁইয়া ও বহিষ্কৃত কমিশনার মোমিনুল হক সাঈদের বিরুদ্ধে অর্থপাচারের প্রমাণ পেয়েছে সিআইডি। এ সংক্রান্ত প্রতিবেদন হাইকোর্টে এসেছে।

বিস্তারিত আসছে...

আরও পড়ুন:


টাকা না দেওয়ায় নানাকে হত্যা করে ঘরেই পুঁতে রাখে নাতি

news24bd.tv/তৌহিদ

পরবর্তী খবর

কাশবনে নিয়ে প্রেমিকাকে ধর্ষণ দুই বন্ধুর!

অনলাইন ডেস্ক

কাশবনে নিয়ে প্রেমিকাকে ধর্ষণ দুই বন্ধুর!

গাইবান্ধার সাঘাটা উপজেলার কাশবনে ছবি তুলতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছে এক কিশোরী। শুক্রবার  দুপুরে মাহবুব ও তার বন্ধু পলাশ সাঘাটা থেকে গাইবান্ধায় আসে। তারপর বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তারা ওই মেয়েকে ফুসলিয়ে ভ্যান যোগে ফুলছড়িতে নিয়ে যায়। সেখান থেকে তারা কাশবনের ছবি তুলতে ফুলছড়ির একটি চরে যায়। পরে চরে যাওয়ার পর মাহবুব ও পলাশ মেয়েটিকে ধর্ষণ করে এবং পালিয়ে যায়। 

গাইবান্ধার ফুলছড়ি উপজেলায় যমুনা নদীর দুর্গম চরাঞ্চলে এই ঘটনা ঘটে। শনিবার (১৬ অক্টোবর) রাতে ভুক্তভোগী কিশোরীর মা বাদী হয়ে ফুলছড়ি থানায় মামলা করেছেন।

এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ২ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

আরও পড়ুন:


মিনিস্টারে বিশাল নিয়োগ , যোগ্যতা ৮ম শ্রেণী

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশে চাকরি, যোগ্যতা এসএসসি

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরে চাকরির সুযোগ, যোগ্যতা এইচএসসি

পল্লী বিদ্যুৎতে বড় নিয়োগ, যোগ্যতা এসএসসি


ফুলছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাওসার আলী জানান, ভুক্তভোগী কিশোরীর মা শনিবার (১৬ অক্টোবর) রাতে মাহবুব ও পলাশের নামে থানায় মামলা দায়ের করেন।পুলিশ অভিযান চালিয়ে দুই ধর্ষককে আটক করেছে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

রাজধানী থেকে টেকনাফ মাদক আইস সিন্ডিকেটের মূল হোতা ও সহযোগী গ্রেফতার

মাসুদা লাবনী

রাজধানী থেকে টেকনাফ মাদক আইস সিন্ডিকেটের মূল হোতা ও সহযোগী গ্রেফতার

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থেকে অবৈধ মাদক আইস (ক্রিস্টালমেথ) এর সর্ববৃহৎ চালান প্রায় ৫ কেজি আইস, বিদেশী অস্ত্র ও গুলিসহ টেকনাফ আইস সিন্ডিকেটের অন্যতম মূল হোতা খোকন ও তার এক সহযোগীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব।  

আজ শনিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। 

শনিবার সকালে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে র‍্যাব।  

বিস্তারিত আসছে... 

আরও পড়ুন:


যে কারণে ম্যান্ডেলার জিনিসপত্র নিলামে উঠেছে

রেকর্ড ভাঙার দ্বারপ্রান্তে বিটকয়েনের দাম!

আইপিএল: কে কোন পুরস্কার পেলেন জেনে নিন

মোবাইলে টুজি সচল, থ্রিজি ও ফোরজির জন্য নেটিজেনদের আক্ষেপ

news24bd.tv রিমু  

পরবর্তী খবর

ছেলের পর বাবাও শিশুটিকে ধর্ষণচেষ্টা চালায়

অনলাইন ডেস্ক

ছেলের পর বাবাও শিশুটিকে ধর্ষণচেষ্টা চালায়

ঢাকার আশুলিয়ায় ৯ বছরের এক শিশুকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে বাবা ও ছেলেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

তাদের বিরুদ্ধে শিশুর বাবা থানায় মামলা দায়ের করলে বাবা ও ছেলেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

আশুলিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জিয়াউল ইসলাম জানান, এর আগে বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) রাতে সুনির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে বাবা ও ছেলেকে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তাররা হলেন- আশুলিয়ার আউকপাড়ার আব্দুস সাত্তারের ছেলে রেজাউল করিম (৪৩) ও তার ছেলে আব্দুর রহমান (২১)।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ১২ অক্টোবর বিকেলে প্রতিবেশী রেজাউল করিম ছাদে শিশুর স্পর্শকাতর স্থানে হাত দেয় ও ধর্ষণের চেষ্টা করে।

এর আগে গত ৬ আগস্ট একইভাবে ছাদে রেজাউল করিমের ছেলে আব্দুর রহমান ধর্ষণের চেষ্টা করে। ভয়ে এতদিন শিশু মেয়েটি কিছু বলেনি। মেয়ে শিশুর মানসিক অবস্থা দেখে পরিবার জানতে চাইলে বিষয়টি খুলে বলে।

শিশুর পরিবার জানায়, মেয়েটি ভয়ে আতঙ্কিত থাকত। সন্দেহ হলে শিশুকে জিজ্ঞেস করলে এসব ঘটনা জানায়। পরে আশুলিয়া থানায় ১৪ অক্টোবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়।

পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জিয়াউল ইসলাম জানান, বিষয়টি তদন্ত করে অভিযুক্ত বাবা ও ছেলেকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে শুক্রবার দুপুরে তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

পরবর্তী খবর

বখাটের বিরুদ্ধে মামলা করে ভয়ে পলাতক বাদী

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি

বখাটের বিরুদ্ধে মামলা করে ভয়ে পলাতক বাদী

ঠাকুরগাঁও বালিয়াডাঙ্গী উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীকে যৌন হয়রানীর অভিযোগে মামলা হয়েছে আসাদুল্লাহ (২২) নামে এক বখাটের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় বালিয়াডাঙ্গী থানা তদন্ত করে নারী শিশু নির্যাতন আইনে একটি মামলা রুজু করে। মামলার কারণে পালিয়ে বেড়াচ্ছে স্কুল ছাত্রীর বাবা।

স্কুলছাত্রীর বাবা গত বৃহস্পতিবার (১৪ই অক্টোবর) রাতে ঠাকুরগাঁও বালিয়াডাঙ্গী থানায় এ বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দেয়। পরে অভিযোগ তদন্ত করে মামলা রুজু করা হয়।

আসাদুল্লাহ (২২) বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার দুওসুও ইউনিয়নের মেম্বারপাড়া এলাকার সাবেক ইউপি সদস্য মৃত এহ্সান আলীর ছেলে। ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করার কারণে এর আগেও আসাদুল্লাহকে কয়েকবার সতর্ক করা হয়েছে। আসাদুল্লাহ ইউপি সদস্যের ছেলে হওয়ায় এলাকায় দাপট দেখায় ও  অপকর্ম করে বেড়ায় এমন অভিযোগ এলাকাবাসীর।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ১২ই অক্টোবর মঙ্গলবার স্কুলছাত্রী সকালে বাসা হতে আইডিয়াল প্রি-ক্যাডেট স্কুলে যাওয়ার জন্য রাওনা দেয়। পথিমধ্যে আসাদুল্লাহ স্কুল ছাত্রীর সাথে কথা বলার জন্য রাস্তা আটকায়। এসময় স্কুল ছাত্রী থামতে না চাইলে আসাদুল্লাহ তার ব্যাগ ও হাঁত ধরে টানাটানি করে ও শারীরিক যৌন হয়রানী করে। পরে কোনোভাবে স্কুলছাত্রী পালিয়ে গিয়ে বাসায় তার বাবাকে বিষয়গুলো জানায়।

আরও পড়ুন:


ইউনিয়ন নির্বাচন নিয়ে সহিংসতা, নিহত ৪ 

আ.লীগের মনোনয়নপত্র বিক্রি ১৬ থেকে ২০ অক্টোবর

দেশে সাম্প্রদায়িক হামলাগুলোর মদদ দিচ্ছে সরকার: ফখরুল

সেদিন নীল শাড়িটাই পরবো: মাহি

দ্বিতীয় বিয়ে করে সত্যিই 'সারপ্রাইজ' দিলেন মাহি


 

পরে স্কুলছাত্রীর বাবা স্কুল কতৃপক্ষ ও এলাকার গন্যমান্য ব্যক্তিদের সাথে কথা বলে আসাদুল্লাহকে আসামি করে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। পরে সেটি মামলা হিসেবে রুজু হয়। এলাকায় দাপটের কারণে মামলা হওয়ার পর থেকে মেয়ের বাবাকে হুমকী দিচ্ছে আসাদুল্লাহ এমন অভিযোগ মেয়ের বাবার।

মেয়ের বাবা বলেন, আমার মেয়ের গানের গলা অনেক সুন্দর। সে তার ভবিষৎ সুন্দর করার জন্য পড়ালেখা করতেছে। সেখানে বখাটে কথিত সাংবাদিক পরিচয়ধারী আসাদুল্লাহ আমার মেয়ের ভবিষৎ নষ্ট করার জন্য এসব করতেছে। এর আগেও আসাদুল্লাহ কে সতর্ক করা হয়েছে। এখন মামলা করার কারণে বখাটে আসাদুল্লাহ আমাকে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে। সেজন্য আমাকে পালিয়ে বেড়াতে হচ্ছে।

বালিয়াডাঙ্গী থানার ওসি হাবিবুল হক প্রধান বলেন, থানায় স্কুলছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছেন। আসামিকে ধরার চেষ্টা চলতেছে। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

news24bd.tv তৌহিদ

পরবর্তী খবর