চবিতে ৩৬০ কোটি টাকার বাজেট, গবেষণায় বরাদ্দ ১.৫২ শতাংশ

অনলাইন ডেস্ক

চবিতে ৩৬০ কোটি টাকার বাজেট, গবেষণায় বরাদ্দ ১.৫২ শতাংশ

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২১-২২ অর্থবছরে ৩৬০ কোটি ৭৯ লাখ টাকার বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে। উপাচার্য কার্যালয়ের সভাকক্ষে উপাচার্য অধ্যাপক ড. শিরীণ আখতারের সভাপতিত্বে ৩৩তম সিনেট সভায় এ বাজেট ঘোষণা করা হয়।

বরাবরের মতই বাজেটে সর্বোচ্চ বরাদ্দ রাখা হয়েছে শিক্ষক ও কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন-ভাতায়। এসময় বাজেট পেশ করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার অধ্যাপক এসএম মনিরুল হাসান। এতে মোট বাজেটের বিপরীতে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাপ্তি ৩৫১ কোটি ৮১ লাখ টাকা। ঘাটতি বাজেট রয়েছে ৮ কোটি ৯৮ লাখ টাকা। একইসঙ্গে গত অর্থবছরের ৩৪৭ কোটি ৪৯ লাখ টাকা সংশোধিত বাজেট অনুমোদিত হয়। 

রও পড়ুন:

সব ফোনের একই চার্জার তৈরির প্রস্তাব, অ্যাপলের আপত্তি

প্রেমের স্বীকৃতি না পেয়ে প্রেট্রোল ঢেলে আগুন দিলেন নারী!

শরীর আর আগের মতো ছিলো না, বিচ্ছেদের কারণ জানিয়ে রোশান

নতুন নায়িকা কোলে নিয়ে শাহরুখকে মনে করালেন জায়েদ খান


২০২১-২২ অর্থ বছরের সর্বোচ্চ বাজেট ঘোষিত হয়েছে শিক্ষক ও কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের বেতন-ভাতা খাতে। এতে বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে ২৩০ কোটি ৮৫ লাখ টাকা। যা মোট বাজেটের প্রায় ৬৭ শতাংশ। তবে গবেষণা খাতে ৫ কোটি ৫০ লাখ টাকা বরাদ্দ রয়েছে। যা মোট বাজেটের ১.৫২ শতাংশ।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে সশরীরে ক্লাস শুরুর তারিখ ঘোষণা

অনলাইন ডেস্ক

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে সশরীরে ক্লাস শুরুর তারিখ ঘোষণা

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত সব কলেজ ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে অনলাইনের পাশাপাশি শ্রেণিকক্ষে পাঠদান কার্যক্রম শুরুর তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে। শনিবার (১৬ অক্টোবর) জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অফিস আদেশে বলা হয়েছে, আগামী ২১ অক্টোবর থেকে সশরীরে ক্লাস শুরু হবে। ​সেই সঙ্গে একই দিন ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) ১ম বর্ষে ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের ওরিয়েন্টেশন প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত হবে।

শনিবার (১৬ অক্টোবর) জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অফিস আদেশে এ তথ্য জানানো হয়।

ওইদিন বিশ্ববিদ্যালয়ের গাজীপুরস্থ ক্যাম্পাসে বিকাল ৩টায় উপাচার্যের কনফারেন্স রুম থেকে ভার্চুয়াল প্লাটফর্মে এই প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত হবে।

অফিস আদেশে বলা হয়, সরাসরি ক্লাস শুরু হওয়ার পূর্বে অবশ্যই কলেজের শ্রেণিকক্ষ, বিজ্ঞানাগারসহ পুরো ক্যাম্পাস যথাযথভাবে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করে ক্লাস নেওয়ার উপযোগী করতে হবে। সংশ্লিষ্ট সকলকে স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিতকল্পে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন গ্রহণ (প্রয়োজনে কলেজ টিকাদান কেন্দ্র স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণ), স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা, সঠিকভাবে মাস্ক ব্যবহার, সামাজিক দূরত্ব রক্ষাসহ প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ ও সচেতনতা বজায় রাখার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন:


মিনিস্টারে বিশাল নিয়োগ , যোগ্যতা ৮ম শ্রেণী

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশে চাকরি, যোগ্যতা এসএসসি

জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরে চাকরির সুযোগ, যোগ্যতা এইচএসসি

পল্লী বিদ্যুৎতে বড় নিয়োগ, যোগ্যতা এসএসসি


এছাড়া একইদিনে আয়োজিত ওরিয়েন্টেশন প্রোগ্রামে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এমপি। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন উপাচার্য প্রফেসর ড. মশিউর রহমান।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

হল খোলার তারিখ জানালো ঢাকা কলেজ

অনলাইন ডেস্ক

হল খোলার তারিখ জানালো ঢাকা কলেজ

চলতি মাসের ২৪ তারিখে খুলছে ঢাকা কলেজের আবাসকি হল। স্নাতক ও স্নাতকোত্তর শ্রেণির শিক্ষার্থীদের জন্য এটি খুলে দেওয়া হবে। করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট বা টিকা প্রদানের সনদ এবং কলেজের আইডি কার্ডের ফটোকপি দেখিয়ে ওই দিন বিকেল ৪টা থেকে আবাসিক শিক্ষার্থীরা হলে উঠতে পারবেন। 

আজ কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক আই কে সেলিম উল্লাহ খোন্দকার ও হল কমিটির আহ্বায়ক উপাধ্যক্ষ প্রফেসর এ.টি.এম মইনুল হোসেন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, অনার্স ও মাস্টার্স শিক্ষার্থীদের হল থেকে সরবরাহ করা আবাসিক ফরম পূরণ করে বিভাগ থেকে যাচাই করে নেওয়ার পর তা আগামী ১০ নভেম্বরের মধ্যে হল তত্ত্বাবধায়কের কাছে জমা দিতে হবে।

আরও পড়ুন:


গাজীপুরে রাস্তা থেকে তুলে নিয়ে পার্লার কর্মীকে গণধর্ষণ

পরিকল্পিতভাবে সাম্প্রদায়িক অপশক্তি পূজায় সহিংসতা সৃষ্টি করেছে: কাদের

ইন্দোনেশিয়ার বালিতে শক্তিশালী ভূমিকম্প, নিহত ৩

ঘোড়ার খামারে বিয়ে করছেন বিল গেটসের মেয়ে


এতে আরও বলা হয়, হলে অবস্থানকালে শিক্ষার্থীদের অবশ্যই মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি) থেকে জারি করা ‘কোভিড ১৯ ও ডেঙ্গু পরিস্থিতি বিবেচনায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের আবাসিক হোস্টেল খোলা ও পরিচালনা সংক্রান্ত নির্দেশনা’ কঠোরভাবে মেনে চলতে হবে। এছাড়া আগামী ৩০ নভেম্বরের মধ্যে শিক্ষার্থীদের হলের সিট ভাড়া দিতে বলা হয়েছে।

তবে করোনা পরিস্থিতি খারাপ হলে বা করোনার প্রাদুর্ভাব বেড়ে গেলে পুনরায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী হল বন্ধের সিদ্ধান্ত আসলে ছাত্রদের অবশ্যই হল ছেড়ে দিতে হবে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

সিনিয়রকে নাম ধরে ডাকায় ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে মারামারি, আহত ১০

অনলাইন ডেস্ক

সিনিয়রকে নাম ধরে ডাকায় ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে মারামারি, আহত ১০

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) সিনিয়রকে নাম ধরে ডাকাকে কেন্দ্র করে শাখা ছাত্রলীগের দুই পক্ষের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। এতে উভয়পক্ষের কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়েছেন।

গতকাল রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত হলে এ ঘটনা ঘটে। 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গতকাল বিকেলে ধীরেন্দ্রনাথ হল শাখা ছাত্রলীগের কর্মী ও পদার্থবিজ্ঞান বিভাগের ১৩তম ব্যাচের শিক্ষার্থী রিয়াজুল ইসলাম বাঁধন নিজের রুমে অর্থনীতি বিভাগের ১২তম ব্যাচের শিক্ষার্থী তানজিম আহমেদ সোহাগের নাম ধরে ডাকেন।

ওই রুমের বাসিন্দা সোহাগের বন্ধু ওয়াকিল বিষয়টি শুনলে ১২ ব্যাচের আইন বিভাগের শিক্ষার্থী শাফী, সোহাগ ও ওয়াকিল ২০০৩ নং রুমে বাঁধনকে ডেকে শাসান। একপর্যায়ে তারা চড় মারেন। এরপর বাঁধন বিষয়টি জানালে ১৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীরা একত্রিত হয়। রাত সাড়ে ১০টার দিকে ২০০৩ নং রুম থেকে শাফীকে ডেকে নিয়ে যান ১৩ ব্যাচের সাদমান।

এ সময় হানিফ, সাদমান, মিরাজ, রবিনসহ ৮-১০ জন শাফীকে এলোপাতাড়ি মারধর করেন। পরে হল শাখা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা ১৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের ৩০৩ নং রুমে একদফা মারধর করেন। এরপর শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রেজাউল ইসলাম মাজেদের রুমে (৩০১) ডেকে নিয়ে বিচারের নামে আধঘণ্টা ধরে ফের তাদের মারধর করেন শাখা ও হল ছাত্রলীগের নেতারা। এ সময় ১৩ ব্যাচের বেশ কয়েকজন আহত হন।

এ বিষয়ে ১৩ ব্যাচের কর্মী হানিফ ভূঁইয়া বলেন, আমাদের বন্ধুকে মারধরের বিষয়ে জানতে তাদের রুমে যাই। তবে আমরা কাউকে আঘাত করিনি।

অন্যদিকে ১২ ব্যাচের শাফী বলেন, আমি হলের সিনিয়র হিসেবে জুনিয়রদের আচরণের বিষয়ে তাদের বুঝিয়ে বলি। কিন্তু তারা এসে আমাকে বেধড়ক মারধর শুরু করে। আমি এর বিচার চাই।

ধীরেন্দ্রনাথ হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রাফিউল আলম দীপ্ত বলেন, হলের অভ্যন্তরীণ একটি বিষয়ে ১২ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে ১৩ ব্যাচের শিক্ষার্থীদের মধ্যে কথাকাটাকাটি হয়। আমিসহ বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক বসে বিষয়টি মীমাংসা করে দিয়েছি।

আরও পড়ুন


থেমে-থেমে জ্বর আসছে খালেদা জিয়ার, খাচ্ছেনও খুবই অল্প

কুমিল্লার ঘটনা উদ্দেশ্যমূলক ও পরিকল্পিত: রিজভী

যুক্তরাষ্ট্রে উড়াল দিলেন মৌসুমী, ভিসা মেলেনি ওমর সানীর

ক্ষমতায় যাওয়ার বিএনপির রঙিন খোয়াব অচিরেই দুঃস্বপ্নে পরিণত হবে: কাদের


এ বিষয়ে শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রেজাউল ইসলাম মাজেদ বলেন, আজকের ঘটনায় জড়িত সকলে হল শাখা ছাত্রলীগের কর্মী। নিজেদের মধ্যে ভুল বোঝাবুঝি থেকে হাতাহাতি হয়েছে। আমরা সিনিয়রদের সঙ্গে বসে বিষয়টি সমাধান করেছি। পরবর্তীতে সভাপতির সঙ্গে কথা বলে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

ঘটনাটি নিয়ে হল প্রভোস্ট ড. মোহাম্মদ জুলহাস মিয়ার সঙ্গে কথা হলে তিনি বলেন, বিষয়টি আমি জানতে পেরেছি। এটি হলের অভ্যন্তরীণ বিষয়, আমরা বসে বিষয়টি সমাধান করে দেব।

অন্যদিকে, প্রক্টর ড. কাজী মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন বলেন, হল প্রভোস্টসহ হলের যারা দায়িত্বে রয়েছেন তারা প্রক্টর বরাবর অভিযোগ দিলে বিষয়টি খতিয়ে দেখবো।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

এসএজিসি ক্লাবের বিজ্ঞানমেলায় উচ্ছ্বসিত শিক্ষার্থীরা

অনলাইন ডেস্ক

এসএজিসি ক্লাবের বিজ্ঞানমেলায় উচ্ছ্বসিত শিক্ষার্থীরা

শহিদ বীর-উত্তম লে. আনোয়ার গার্লস কলেজের বিজ্ঞান ক্লাব প্রতিবছর সাফল্যের সাথে বিজ্ঞান মেলার আয়োজন করে আসছে। করোনা অতিমারীকালেও প্রতিষ্ঠানের এই আয়োজন থেমে থাকেনি। এ বছরও উক্ত ক্লাবটির পরিচালনায় ৫ম বারের মতো আয়োজিত হয়েছে "অকো-টেক্স গ্রুপ প্রেজেন্টস এসএজিসি ৫ম বিজ্ঞান উৎসব-২০২১(অনলাইন)।"

করোনা অতিমারির প্রতিকূল পরিস্থিতির কারণে বিজ্ঞান মেলাটির বিভিন্ন কার্যক্রম অনলাইনে পরিচালিত হয়। বর্তমান প্রজন্মের শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞানমনস্ক করে গড়ে তোলার লক্ষ্যেই এই বিজ্ঞান উৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। মেলাটি অনুষ্ঠিত হয় ১০ জুন, ২০২১ থেকে ১২ জুন, ২০২১ পর্যন্ত। 

করোনা অতিমারির কারণে সেসময় বিজ্ঞান উৎসবের পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠান আয়োজন করা সম্ভব হয় নি। কিন্তু বর্তমানে স্বাস্থ্যবিধি মেনে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিতে শ্রেণীকক্ষে শিক্ষা কার্যক্রম চালু হয়েছে। করোনা অতিমারির প্রকোপে গৃহবন্দি জীবনের অবসাদ কাটিয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রাণের স্পন্দন ফিরিয়ে আনতে ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১ তারিখে এসএজিসি বিজ্ঞান ক্লাব "অকো-টেক্স গ্রুপ প্রেজেন্টস এসএজিসি ৫ম বিজ্ঞান উৎসব-২০২১" এর সমাপনী উৎসবের (অফলাইন) আয়োজন করে।

বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ক্ষুদে বিজ্ঞানীদের অংশগ্রহণের মাধ্যমে জাঁকজমকপূর্ণ হয়ে ওঠে অনুষ্ঠানটি। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অত্র প্রতিষ্ঠানের পরিচালনা পর্ষদের সম্মানিত সভাপতি ব্রিগেডিয়ার জেনারেল কে এম আমিরুল ইসলাম, এসপিপি এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মিসেস আসমাউল হুসনা।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, "একজন শিক্ষার্থীর সঠিক বিকাশের জন্য কেবল প্রাতিষ্ঠানিক লেখাপড়াই যথার্থ নয়। লেখাপড়ার পাশাপাশি সহশিক্ষা কার্যক্রম, প্রতিযোগিতামূলক অনুষ্ঠান, এমনকি বিজ্ঞান উৎসবের আয়োজনেরও প্রয়োজন আছে। শিক্ষার্থীদের অনুসন্ধিৎসু ও বিজ্ঞানমনস্ক করে তোলার পাশাপাশি তাদের মেধাকে শাণিত করার এই প্রয়াসকে স্বাগত জানাই।"

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন অত্র প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ, কর্নেল মো: মোজাহিদুল ইসলাম, পিএসসি, জি। এছাড়াও উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন প্রতিষ্ঠানের উপাধ্যক্ষগণ এবং সংশ্লিষ্ট শিক্ষক-শিক্ষার্থীবৃন্দ। 

আরও পড়ুন:

বিশ্ব ক্ষুধা সূচকে ভারত-পাকিস্তানের চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশ

ফাইনালে কলকাতা-চেন্নাইয়ের সম্ভাব্য একাদশ, সাকিব থাকছেন কি?

ভিড়ের মধ্যে কান্না করা শিশুকে ঘিরে আসল রহস্য উদঘাটন

যে কারণে ব্রাজিলের রেফারিকে নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করলেন মেসি


এ জাতীয় আয়োজন বর্তমান প্রজন্মের জন্য সৃষ্টি করেছে বিজ্ঞান চর্চার এক উজ্জ্বল ক্ষেত্র। "Challenge Your Inner Genius" শিরোনামে আয়োজিত এই বিজ্ঞান উৎসবের বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের ১২৯টি স্কুল-কলেজের ছাত্র-ছাত্রী অংশগ্রহণের মাধ্যমে তাদের বিজ্ঞানমনস্ক মনোভাবের প্রকাশ ঘটাতে পেরেছে এবং তাদের সুপ্ত প্রতিভাকে বিকশিত করার সুযোগ লাভ করেছে।

বর্ণাঢ্য এ বিজ্ঞান উৎসবে ২৮টি সেগমেন্টে বিভিন্ন প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। যার মধ্যে অন্যতম হলো রোবটিক্স অলিম্পিয়াড, গণিত অলিম্পিয়াড, পদার্থবিজ্ঞান অলিম্পিয়াড, জীববিজ্ঞান অলিম্পিয়াড, সলো কুইজ, পপ কুইজ, উপস্থিত বক্তৃতা, দলীয় কুইজ প্রতিযোগিতা, মাল্টিমিডিয়া প্রেজেন্টেশন, প্রজেক্ট ডিসপ্লে। অনলাইনে শিক্ষার্থীদের প্রজেক্ট ডিসপ্লে বিজ্ঞান মেলায় যুক্ত করেছে এক ভিন্ন মাত্রা।

news24bd.tv/ নকিব

পরবর্তী খবর

সেরা গবেষকের তালিকায় ঠাকুরগাঁওয়ের প্রফেসর ড. আনোয়ার খসরু

আব্দুল লতিফ লিটু, ঠাকুরগাঁও

সেরা গবেষকের তালিকায় ঠাকুরগাঁওয়ের প্রফেসর ড. আনোয়ার খসরু

আন্তর্জাতিক সংস্থা আলপার-ডগার (এডি) বৈজ্ঞানিক সূচকে এর বিশ্বসেরা বিজ্ঞানী ও গবেষকদের তালিকায় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অনুষদের ৪৯ জন শিক্ষক স্থান পেয়েছেন।

গত রোববার এডি সাইন্টিফিক ইনডেক্স নামে আন্তর্জাতিক খ্যাতনামা এ সংস্থা সারা বিশ্বের ৭ লাখেরও বেশি বিজ্ঞানীর ও গবেষকের সাইটেশান এবং অন্যান্য ইনডেক্সের ভিত্তিতে এই তালিকা প্রকাশ করেছে। ৪৯ জন শিক্ষকের মধ্যে ঠাকুরগাঁওয়ের প্রফেসর ড. আনোয়ার খসরু পারভেজ রয়েছেন।

প্রফেসর ড. আনোয়ার খসরু পারভেজ ১৯৭৩ সালে ঠাকুরগাঁওয়ের কালিবাড়িতে জন্মগ্রহন করেন। তিনি মৃত আব্দুর রউফ এর কনিষ্ঠ পুত্র। পেশাগত জীবনে তিনি দীর্ঘ ২২ বছর ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষকতা করছেন। বর্তমানে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের অধ্যাপক এবং প্রেষণে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে কোষাধ্যক্ষ হিসেবে সফলতার সাথে দায়িত্ব পালন করছেন।

তিনি কৃতিত্বের সাথে ঠাকুরগাঁও জেলা স্কুল থেকে এসএসসি এবং ঢাকা কলেজ থেকে এইচএসসি পাশের পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগ থেকে বিএসসি ও এমএসসি সম্পন্ন করেন। জাপানের ওসাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে জীবপ্রযুক্তি ও জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিষয়ে ইউনেস্কো আইসি-বায়োটেক পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ডিপ্লোমা করেছেন ২০০৩ সালে। প্রথম পিএইচডি করেছেন মাইক্রোবায়োলজি বিষয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ২০০৫ সালে এবং দ্বিতীয়বার মোনবুকাগাকুশো বৃত্তি নিয়ে পিএইচডি করেন ফার্মাসিউটিক্যাল সায়েন্সে টোকুশিমা বিশ্ববিদ্যালয় জাপান থেকে ২০০৮ সালে। এরপর ইরাসমাস  মুন্ডাস বৃত্তি নিয়ে পোস্ট ডক্টরাল গবেষণা সম্পন্ন করেন ইতালির মিলান বিশ্ববিদ্যালয় থেকে।

একজন পেশাদার দক্ষ মাইক্রোবায়োলজিস্ট হিসেবে গবেষণা করছেন কোভিড-১৯, ডেংগু, আণবিক ওষুধ ও সংক্রামক রোগ, পরজীবী, ক্লিনিক্যাল এবং পরিবেশগত মাইক্রোবায়োলজিসহ উদীয়মান সংক্রামক রোগ নিয়ে। তিনি উল্লেখযোগ্য সংখ্যক শিক্ষার্থীদের গবেষণা কর্মের তত্ত্বাবধান করছেন। আন্তর্জাতিক কোলাবোরেটিভ গবেষণার সাথেও যুক্ত আছেন। তাঁর বুক চ্যাপ্টারসহ দেশি বিদেশি ৮০ টিরও অধিক প্রকাশনা রয়েছে। তিনি বর্তমানে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের জার্নাল 'PUST STUDIES'-এর চিফ এডিটর হিসেবেও কাজ করছেন।

আরও পড়ুন


ষষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রীকে ছাত্রলীগ নেতার ধর্ষণ, মামলা থেকে বাঁচতে বিয়ে

যে কারণে মোবাইল ইন্টারনেট বন্ধ, জানাল বিটিআরসি

পদার্থবিজ্ঞানে অবদানের জন্য ‘মুস্তফা পুরস্কার’ পেলেন বাংলাদেশি বিজ্ঞানী জাহিদ হাসান

উরুগুয়েকে গোল বন্যায় ভাসিয়ে জয়ে ফিরল ব্রাজিল


তিনি বিশেষত কোভিড-১৯ ডেডিকেটেড পয়েন্ট-অফ কেয়ারে আরটি-পিসিআর পরীক্ষাগার স্থাপনে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে গত এক বছর ধরে সরকারিভাবে অংশ নিয়েছেন। এছাড়া ঠাকুরগাঁও টিবি ক্লিনিক এবং পাবনা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে একজন বিশেষজ্ঞ হিসেবেও কাজ করেছেন।

একুশে বই মেলা-২০২১’ এ- প্রকাশিত হয়েছিল প্রফেসর ড. মো: আনোয়ার খসরু পারভেজের করোনা নিয়ে লেখা প্রবন্ধের গ্রন্থ- ‘বাংলাদেশের করোনা প্রেক্ষাপট ও চালচিত্র’। বর্তমান পেক্ষাপটে ডিজিটাল প্লাটর্ফমের সাথে তাল মিলিয়ে খাদ্য, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, বর্জব্যবস্থাপনাসহ নানা বিষয়ে গবেষণার মধ্যে দিয়ে দেশকে এগিয়ে নিতে কার্য পরিকল্পনার কথা তুলে ধরেন। তার এমন খুশির খবর ছড়িয়ে পরায় স্থানীয় ও দুর দুরান্তের গুনীজনরা মিলিত হচ্ছেন এবং কুশল বিনিময় করছেন তার সাথে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর