সরকার কোনো বিদেশি চ্যানেল বন্ধ করেনি: তথ্যমন্ত্রী
সরকার কোনো বিদেশি চ্যানেল বন্ধ করেনি: তথ্যমন্ত্রী

সরকার কোনো বিদেশি চ্যানেল বন্ধ করেনি: তথ্যমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, সরকার কোনো বিদেশি চ্যানেল বন্ধ করেনি। বিদেশি চ্যানেলগুলোর যারা বাংলাদেশি এজেন্ট বা অপারেটর তারাই বন্ধ করে রেখেছে। যেহেতু তাদেরকে বিজ্ঞাপন ছাড়া ফিড দিচ্ছে না, সেজন্য তারা সম্প্রচার বন্ধ রেখেছে।  

আজ দুপুরে চট্টগ্রামের শিল্পকলা একাডেমিতে এক আলোচনা সভা শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা বলেন তিনি।

বঙ্গবন্ধুকন্যা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষে প্রবাসী কমিউনিটি সংযুক্ত আরব আমিরাত শাখা আলোচনা সভাটির আয়োজন করে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, আশা করছি খুব শিগগির বিদেশি চ্যানেলগুলো বিজ্ঞাপন ছাড়া বাংলাদেশে ফিড পাঠাবে। তাহলে তো এখানে সম্প্রচারের ক্ষেত্রে কোনো বাধা নেই। বিজ্ঞাপনবিহীন যেসব চ্যানেল আছে সেগুলো সম্প্রচারের ক্ষেত্রে কোনো বাধা নেই।  

তিনি বলেন, এজেন্ট ও ক্যাবল অপারেটরদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছি। তারা বলছে তাদের কিছু কারিগরি ত্রুটি আছে। সেজন্য সম্প্রচার করতে পারছে না। এটা সহসাই নিরসন হয়ে যাবে বলে তারা তথ্য মন্ত্রণালয়কে জানিয়েছেন।  

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, যেসব বিদেশি চ্যানেল বিজ্ঞাপন ছাড়া সম্প্রচার হয়, সেগুলোর জন্য আমাদের আইন কোনো সমস্যা করেনি। কেউ কেউ জনগণকে ক্ষুব্ধ করতে সম্প্রচার বন্ধ করে রাখতে পারে। এছাড়া কোনো কোনো চ্যানেল সম্প্রচারে সমস্যা আছে। আশা করি দ্রুত সেসব সমস্যা কেটে যাবে।

আরও পড়ুন:


বিএনপির আন্দোলনের হাতিয়ারে মরিচা ধরে গেছে: ওবায়দুল কাদের

নির্বাচন নির্বাচন খেলা আর হবে না: মির্জা ফখরুল

রোহিঙ্গাদের নেতা মুহিবুল্লাহ হত্যায় আরও দুইজন গ্রেপ্তার

প্রবাসীদের জন্য নতুন যে নির্দেশনা দিয়েছে সৌদি সরকার


তিনি বলেন, যেকোনো বিদেশি চ্যানেল সম্প্রচার হতে পারে, তবে বাংলাদেশের আইন মেনে। ইউরোপ-আমেরিকাও এ আইন আছে। পাশের দেশ ভারতেও সেই আইন মেনে বিদেশি চ্যানেলকে বিজ্ঞাপন প্রচার করতে হয়।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, দেশের আইনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে এতদিন বিদেশি চ্যানেলগুলো বিজ্ঞাপন সম্প্রচার করেছে। এতে দেশ প্রায় ২ হাজার কোটি টাকার মতো বিনিয়োগ বঞ্চিত হয়েছে। এজন্য আমরা আইন মেনে গতকাল থেকে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেছি। এ পদক্ষেপকে দেশের টেলিভিশন মালিকদের সংগঠন অভিনন্দন জানিয়েছে।

news24bd.tv নাজিম