আজকের বাংলাদেশ উন্নয়নের রোল মডেল : প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

আজকের বাংলাদেশ উন্নয়নের রোল মডেল : প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী

আজকের বাংলাদেশ সারা বিশ্বের প্রশংসার বাংলাদেশ বলে মন্তব্য করেছেন মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম ।

গতকাল রবিবার (০৩ অক্টোবর) রাতে সৌদি আরবের জেদ্দায় কৃষক লীগ, সৌদি আরব শাখা আয়োজিত এক মতবিনিময় সভায় মন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

এ সময় তিনি বলেন, আজকের বাংলাদেশ উন্নয়নের রোল মডেল। আজকের বাংলাদেশ শেখ হাসিনার স্বচ্ছ রাজনীতির বাংলাদেশ, বিচারহীনতার সংস্কৃতি থেকে বেরিয়ে আসা বাংলাদেশ। সারা বিশ্বের প্রশংসার বাংলাদেশ। সামাজিক সূচকে এগিয়ে যাওয়ার বাংলাদেশ। সে বাংলাদেশে প্রবাসীরা উন্নয়নের সহযোদ্ধা।

তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশ এখন আর তলাবিহীন ঝুঁড়ির বাংলাদেশ না, প্রাকৃতিক দুর্যোগের বাংলাদেশ না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বলা হয় বিশ্বের শ্রেষ্ঠ পরিশ্রমী, সৎ তিনজন প্রধানমন্ত্রীর অন্যতম। সম্প্রতি জাতিসংঘে এসডিজির সাফল্যের জন্য তাঁকে অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হয়েছে এবং সে অ্যাওয়ার্ডে বলা হয়েছে বিশ্বের অনেক দেশের চেয়ে অনেক সূচকে বাংলাদেশ এগিয়ে গেছে। এ অ্যাওয়ার্ড আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে শেখ হাসিনা ছাড়া অন্য কাউকে দেওয়া হয়নি।

বিএনপি-জামায়াত দেশে ব্যর্থ হয়ে বিদেশে বসে মিথ্যাচার করে উল্লেখ করে এ সময় মন্ত্রী বলেন, দেশের ভেতরে দুটি অংশ। একটি আওয়ামী লীগ ও মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে। আরেকটি হচ্ছে আওয়ামী বিরোধী। এই বিরোধী কারা? এরা স্বাধীনতাবিরোধী ও তাদের নতুন প্রজন্ম। যারা এখনো পাকিস্তানকে ভুলতে পারে নি, যারা সাম্প্রদায়িকতার কথা বলে, যারা মুক্তিযুদ্ধের চেতনার বাংলাদেশ বাদ দিয়ে আবার পাকিস্তানের স্বপ্নে বিভোর হতে চায়। দেশের মানুষ তাদের প্রত্যাখ্যান করছে। বাংলাদেশে এখন বিএনপি-জামায়াতের ডাকে কোন লোক আসে না। দেশে ব্যর্থ হয়ে তারা বিদেশে বসে শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করে।

শ ম রেজাউল করিম এ সময় আরো যোগ করেন, বিএনপির জন্মই মিথ্যাচারের মধ্য থেকে। সুপ্রিম কোর্ট রায় দিয়ে বলেছে জিয়াউর রহমান, খন্দকার মোশতাক আর বিচারপতি সায়েম এই তিনজনের ক্ষমতায় আসা ছিল অবৈধ। ফলে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট থেকে ১৯৭৯ সালের ৭ এপ্রিল পর্যন্ত যারাই ক্ষমতায় ছিলেন, তারা জনপ্রতিনিধি ছিলেন না, তাদের কর্মকান্ড ছিল অবৈধ। সে দৃষ্টিতে বিএনপির জন্ম নেওয়া অবৈধ। সর্বোচ্চ আদালতের রায়ে সে সময় রাষ্ট্রপতি হওয়া ব্যক্তিরা দেশদ্রোহী, জবরদখলকারী এবং ফৌজদারী অপরাধ সংগঠনকারী।

বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর বাংলদেশকে কার্যত পাকিস্তানে পরিণত করার চেষ্টা হয়েছিল উল্লেখ করে মন্ত্রী আরো বলেন, জিয়াউর রহমান ইনডেমনিটি অধ্যাদেশকে আইনে পরিণত করে বঙ্গবন্ধুর খুনিদের বিচারের পথ বন্ধ করেছেন এবং খুনিদের রাষ্ট্রীয় বিভিন্ন পদ-পদবীতে প্রতিষ্ঠিত করেছেন। সে বাংলাদেশে শেখ হাসিনা ফিরে এসে আবার মুক্তিযুদ্ধের চেতনা প্রতিষ্ঠিত করেছেন। তিনি বাংলাদেশকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে এসেছেন। শেখ হাসিনা ভালো থাকলে মুক্তিযুদ্ধের বাংলাদেশ থাকবে। তিনি ভালো না থাকলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনার অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ থাকবে না। তিনি ভালো না থাকলে প্রাণ খুলে জয় বাংলা শ্লোগান দেওয়ার সুযোগ পাওয়া যাবে না।

আরও পড়ুন

ভারতে কৃষকদের বিক্ষোভে নিহত ৯

প্যানডোরা বাকসো থেকে বেরিয়ে আসছে পুতিনের বান্ধবীর গল্প

প্রবল গতিবেগে আঘাত হানে ঘূর্ণিঝড় শাহিন

জাপানে নির্বাচিত হলেন শততম প্রধানমন্ত্রী


কৃষক লীগ, সৌদি আরব শাখার সভাপতি কামরুল হাসান জুয়েলের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেদ্দায় বাংলাদেশ কনস্যুলেটের কনসাল জেনারেল মোহাম্মদ নাজমুল হক। অন্যান্যের মধ্যে জেদ্দায় বাংলাদেশ মিশনের কাউন্সিলর (লেবার) মো. আমিনুল ইসলাম, বাংলাদেশ হজ অফিস, জেদ্দার কাউন্সিলর (হজ) মো. জহিরুল ইসলাম এবং স্থানীয় প্রবাসী আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

পদার্থবিজ্ঞানে অবদানের জন্য ‘মুস্তফা পুরস্কার’ পেলেন বাংলাদেশি বিজ্ঞানী জাহিদ হাসান

অনলাইন ডেস্ক

পদার্থবিজ্ঞানে অবদানের জন্য ‘মুস্তফা পুরস্কার’ পেলেন বাংলাদেশি বিজ্ঞানী জাহিদ হাসান

এ বছর পদার্থবিজ্ঞানে অবদানের জন্য ইসলামিক সহযোগিতা সংস্থার (ওআইসি) ‘মুস্তফা পুরস্কার’ পেয়েছেন বাংলাদেশি পদার্থবিজ্ঞানী এম জাহিদ হাসান। তিনি ইরানের বিজ্ঞানী কামরুন ওয়াফার সঙ্গে যৌথভাবে এই পুরস্কারের জেতেন।

বুধবার ইরানে এ পুরস্কার ঘোষণা করা হয়। এই পুরস্কারের আর্থিকমূল্য ৫ লাখ ডলার। যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় সাড়ে ৪ কোটি টাকা।

প্রবাসী মুসলিম বিজ্ঞানী জাহিদ হাসান গাজীপুর-৩ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট রহমত আলীর বড় ছেলে।

ইরানের মুস্তফা (স.) ফাউন্ডেশন প্রতিবছর বিশ্বের শ্রেষ্ঠ মুসলিম বিজ্ঞানী ও গবেষকদের এ পুরস্কার দিয়ে থাকে।

এই পুরস্কার এবার পাঁচ বিজ্ঞানী পেয়েছেন। যৌথভাবে পুরস্কার বিজয়ী বাকি তিন বিজ্ঞানী হলেন- স্বদেশে বসবাসকারী শ্রেষ্ঠ মুসলিম বিজ্ঞানী বিজয়ী হয়েছেন মরক্কোর ইয়াহিয়া তিয়ালাতি, লেবাননের মুহাম্মাদ সানেগ ও পাকিস্তানের মুহাম্মাদ ইকবাল চৌধুরী।

আরও পড়ুন


উরুগুয়েকে গোল বন্যায় ভাসিয়ে জয়ে ফিরল ব্রাজিল

এবার পেরুকে হারাল মেসির আর্জেন্টিনা

আজ বিজয়া দশমী

জালিয়াতি থেকে রক্ষা পেল স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ৩৫৫ কোটি টাকা


গাজীপুরের সন্তান জাহিদ হাসান যুক্তরাষ্ট্রের প্রিন্সটন বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক। তিনি ১৯৮৮ সালে ঢাকা কলেজ থেকে এইচএসসিতে প্রথম স্থান অধিকার করেন।

তথ্যপ্রযুক্তি, চিকিৎসাবিজ্ঞান, ন্যানোটেকনোলজিসহ ৪টি ক্যাটাগরিতে অবদানের জন্য এ পুরস্কার ঘোষণা করা হয়। মহানবি মোস্তফার (স.) নামে ২০১৫ সাল থেকে ঘোষিত এই পুরস্কারকে বলা হয় মুসলিম বিশ্বের নোবেল।

এর আগে আরও তিন দফায় নয় জন শ্রেষ্ঠ মুসলিম বিজ্ঞানীকে পুরস্কার দেওয়া হয়েছে। তারা ছিলেন ইরান, সিঙ্গাপুর, তুরস্ক ও জর্ডান থেকে।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে মালদ্বীপে আলোচনা সভা ও নৈশভোজ

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে মালদ্বীপে আলোচনা সভা ও নৈশভোজ

এশিয়ার বিশ্বকাপ খ্যাত ফুটবলের সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ উপলক্ষে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে বাংলাদেশ থেকে আগত সাংবাদিকদের নিয়ে নৈশভোজ ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

অনুষ্ঠানের শুরুতে মালদ্বীপ ও বাংলাদেশের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের বিভিন্ন কার্যক্রমের ওপর নির্মিত প্রামাণ্যচিত্র প্রর্দশন করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মালদ্বীপ দূতাবাসের রাষ্ট্রদূত রিয়ার অ্যাডমিরাল মোহাম্মদ নাজমুল হাসান।

এসময় অনুষ্ঠানে মালদ্বীপে অবস্থানরত সাংবাদিকরা বক্তব্য রাখেন। এছাড়াও বাংলাদেশি রাষ্ট্রদূত রিয়ার অ্যাডমিরাল মোহাম্মদ নাজমুল হাসান বক্তব্য রাখেন।

আরও পড়ুন


একাই ৫৫০টি কেক কেটে জন্মদিন পালন করলেন যুবক!

মাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের জন্য যেসব নির্দেশনা দিল মাউশি

প্রলোভন দেখিয়ে অর্ধশত নারীকে মধ্যপ্রাচ্যে পাঠিয়ে বিক্রি, গ্রেপ্তার ৮

আজ মহানবমী, কাল বিদায় নেবে দেবীদূর্গা


রাষ্ট্রদূত তার বক্তব্যের শুরুতেই জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন। পরে সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানিয়ে তিনি বলেন, এর আগে একসঙ্গে এত সাংবাদিক মালদ্বীপের মাটিতে আসেননি। সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ উপলক্ষে আপনারা এসেছেন বাংলাদেশ থেকে; মালদ্বীপে আমরা অনেক আনন্দিত।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

ঘূর্ণিঝড় ক্ষতিগ্রস্ত প্রবাসীদের পাশে ওমান চট্টগ্রাম সমিতি

অনলাইন ডেস্ক

ঘূর্ণিঝড় ক্ষতিগ্রস্ত প্রবাসীদের পাশে ওমান চট্টগ্রাম সমিতি

গ্রীষ্মমণ্ডলীয় ঘূর্ণিঝড় শাহীনের তাণ্ডবে ওমানে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এর প্রভাবে প্রবাসী বাংলাদেশিসহ দুর্গত এলাকার হাজার হাজার মানুষ মানবেতর জীবনযাপন করছে। 

ঘূর্ণিঝড় শাহীনের তাণ্ডবে ক্ষতিগ্রস্ত অসহায় প্রবাসী বাংলাদেশিদের পাশে দাঁড়িয়েছে প্রবাসে মানবতার সেবায় নিয়োজিত চট্টগ্রাম সমিতি ওমান। 

সংগঠনটির পক্ষ থেকে ঘূর্ণিঝড়ে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত আল-সুইক, আল বিদিয়া, আল কাবুরা, আল খাদারা, আল কাছবিয়া এলাকায় মানুষের মাঝে জরুরি খাদ্যসহ মানবিক সহায়তা বিতরণ করা হয়।

ওই দিন রাজধানী মাস্কাট থেকে সমিতির সভাপতি এবং এনআরবি সিআইপি অ্যাসোসিয়েশনের নব-নির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইয়াছিন চৌধুরীসহ ৬০ জনের একটি দল ক্ষতিগ্রস্ত এলাকায় যায়। সেখানে এক হাজার প্রবাসীর মধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়। সাত কেজি ওজনের প্রতিটি প্যাকেটে ছিল- চাল, ডাল, তেল, আলু পিয়াজ।

আরও পড়ুন:


ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আইপিএল নিয়ে জুয়া, ৩ জনের সাজা

চট্টগ্রাম আদালত এলাকায় বোমা হামলা মামলার রায় আজ

টুইটার অ্যাকাউন্ট ফিরে পেতে আদালতে ট্রাম্প

যুবলীগ নেতার সঙ্গে ভিডিও ফাঁস! মামলা তুলে নিতে নারীকে হুমকি


কর্মসূচিতে সংগঠনের আজীবন দাতা সদস্য তৌহিদুল আলম সিআইপি, আবু ইউসুফ, মনসুর আলম মুছা, আবু বক্কর, জানে আলম, ইঞ্জিনিয়ার শহীদ, সহ-সভাপতি সৈয়দ জাহাঙ্গীর আলম, মো. মোরশেদ , নুরুল ইসলাম নুরু, প্রকৌশলী আশরাফুর রহমান সিআইপি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাবলু চৌধুরী, অর্থ সম্পাদক নাসির মাহমুদ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক নিজাম উদ্দিন, কার্যকরী পরিষদের সম্পাদক আব্বাস উদ্দিন, আব্দুর রাজ্জাক, জুয়েল ওয়াহিদ, রহিম উল্লাহ, সেলিম নুর, মোহাম্মদ সেকান্দর, আজিজ মোহাম্মদ, মঞ্জুরুল আলম অংশ নেন।

এছাড়া সহায়তায় ছিলেন টিপু সরোয়ার, জাহাঙ্গীর, সোহেল, পারভেজ, রাশেদ, বেলাল, মুবিন, হাসান, রিয়াদ এনাম, আব্দুস সাত্তার, ফোরকানসহ অনেকে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

কানাডায় ‘গোল্ডেন এজ সেন্টার’ নামে ক্লাবের উদ্বোধন

লায়লা নুসরাত, কানাডা

কানাডায় ‘গোল্ডেন এজ সেন্টার’ নামে ক্লাবের উদ্বোধন

গত শনিবার ৯ অক্টোবর সন্ধ্যা ছয়টায় টরন্টোর ৩০০০ ড্যানফোর্থ এ্যভেনিউতে ‘গোল্ডেন এজ সেন্টার’ নামে সিনিয়রস ক্লাবের উদ্বোধন করেন একুশে ও বাংলা একাডেমী পদকপ্রাপ্ত দেশ বরেণ্য কবি আসাদ চৌধুরী। অনাড়ম্বরপূর্ণ এই অনুষ্ঠানে এমপিপি ডলি বেগম সহ কমিউনিটির বিশিষ্টজনেরা উপস্থিত হয়ে প্রবাসী বাংলাদেশি বয়োজ্যেষ্ঠদের জন্য এ ধরনের উদ্যোগকে স্বাগত জানান এবং এর সফলতা কামনা করেন।

করোনাকালীন সময়ের স্বাস্থ্যবিধি বিবেচনায় খুবই সীমিত পরিসরে এই উদ্বোধন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় ৩০০০ ড্যানফোর্থে এ্যভেনিউতে ‘গোল্ডেন এজ সেন্টারে’। এই স্থানটি পূর্বে মিজান কমপ্লেক্স অডিটরিয়াম নামে বহুল পরিচিত ছিল।  

গোল্ডন এজ সেন্টারের উদ্যোক্তা ব্যারিস্টার বিজুয়ান রহমান জানান, সেন্টারটিতে থাকবে ছোট্ট একটা লাইব্রেরী, আরাম করে বসে বই/পত্রিকা/সাময়িকী পড়ার ব্যবস্থা, সমবয়সীদের সাথে টেবিল টেনিস, ক্যারম-দাবা-লুডু খেলার সুযোগ, ইন্টারনেটসহ কম্পিউটার আর বিশাল স্ক্রিন এর টিভির ব্যবস্থা। সাথে থাকবে বিনামূল্যে চা-বিস্কুটের ব্যবস্থা। সেইসাথে থাকবে বিশেষজ্ঞদের পরিচালনায় নিত্যদিনের প্রয়োজনীয় বিভিন্ন বিষয়ের উপর ছোট-ছোট ইনফরমেটিভ প্রোগ্রাম।

সেন্টারের ওপেন আওয়ারে যে কোনো বিপদে অথবা প্রয়োজনে সহায়তা করার জন্য সার্বক্ষণিক একজন ব্যবস্থাপক থাকবেন। তিনি আরও জানান সেখানে প্রথম এবং একমাত্র প্রায়োরিটি হবে গুরুজনদের শারীরিক, মানসিক ও সামাজিক সুযোগসুবিধা। এই সবকিছুই হবে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে। শুরুর দিকে সপ্তাহে ৭ দিন, প্রতিদিন দুপুর ১ টা থেকে বিকাল ৫ টা পর্যন্ত সেন্টার খোলা থাকবে। ক্লাবের সুযোগ সুবিধা উপভোগ করতে এর সদস্য হতে হবে। তবে কোন সদস্য ফি লাগবে না।

আরও পড়ুন


১৭ বছরের কিশোরীকে রাতভর ধর্ষণ, রক্তক্ষরণে মৃত্যু

ভূরুঙ্গামারীতে অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীর পেটে স্বামীর লাথি, রক্তক্ষরণে মৃত্যু

বিএনপির সব পর্যায়ের কমিটি ডিসেম্বরেই, ব্যর্থ হলেই শোকজ

মুসা বিন শমসেরের কিছুই নেই, তিনি ভুয়া মানুষ: পুলিশ


সদস্য ফর্ম ক্লাবের অফিস ডেস্কে পাওয়া যাবে। তাছাড়া সামাজিক, সাংস্কৃতিক, পেশাজীবী ইত্যাদি সংগঠন সমূহ বিকাল পাঁচটার পর অনুষ্ঠানের প্রয়োজনে সেন্টার ব্যবহারের জন্য যোগাযোগ করতে পারেন। এসমস্ত বিষয়ের প্রয়োজনে বর্তমানে ব্যবস্থাপনার দায়িত্বপ্রাপ্ত ফায়েজুল করিমের সাথে যোগাযোগ করার জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে ( Mobile no. 6474730047)। Email- [email protected] সেন্টার সম্পর্কে আরও বিস্তারিত তথ্যের জন্য ফেইসবুক পেজ “Golden Age Centre” এ চোখ রাখতে অনুরোধ করা হয়েছে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- বাংলাদেশ থিয়েটার, টরন্টেোর সভাপতি মোহাম্মদ হাবিবুল্লা দুলাল, BIES এর নির্বাহী পরিচালক ইমাম উদ্দিন, শাহানা চৌধুরী, বাংলা কাগজ সম্পাদক এম আর জাহাঙ্গীর, নাট্য নির্দেশক আহমেদ হোসেন, লেখক ও সাংবাদিক বিদ্যুত সরকার, বাংলা মেইল সম্পাদক ও এনআরবি টিভির সিইও শহিদুল ইসলাম মিন্টু, এলামনাই এসোসিয়েশনের সভাপতি ইণ্জিঃ নওশের আলি, SAWRO নির্বাহী পরিচালক সুলতানা জাহাঙ্গীর, নাট্যগুরু অরুণা হায়দার, আবাকানের সাধারণ সম্পাদক হাশমত আরা চৌধুরী (জুঁই), আজকাল সম্পাদক ও জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মাহবুব চৌধুরী রনি, প্রগ্রেস সেন্টারের পরিচালক ডাঃ মমিন, সংগীত শিল্পী কালা চাঁদ, সংগীত শিল্পী সোহেল ইমতিয়াজ, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সম্পাদক ও সমাজ সংগঠক ইলিয়াস খান, ফায়েজুল করিম, আবাকানের সাবেক সাধারন সম্পাদক ও বিক্রমপুর এসোসিয়েশনের সাবেক সভাপতি মোহাম্মদ আবূুুল বাশার, ডেনফোর্থ ইসলামিক সেন্টারের পরিচালক এনামুল হক, সুলতানা হক বাবলী, সেলিনা ভুঁইয়া, অলিউর রহমান, হাসিবুল করিম প্রমুখ।

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

এবার ডিভি লটারিতে নেই বাংলাদেশ, কিন্তু সক্রিয় ধান্দাবাজরা

অনলাইন ডেস্ক

এবার ডিভি লটারিতে নেই বাংলাদেশ, কিন্তু সক্রিয় ধান্দাবাজরা

নাগরিকত্ব পাওয়ার অন্যতম সহজ সুযোগ যুক্তরাষ্ট্রের গ্রিনকার্ড (ডিভি-২০২৩) লটারিতে আবেদন নেওয়া হচ্ছে ৬ অক্টোবর থেকে। মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ঘোষণায় এই কর্মসূচি শুরু হয়েছে। 

তবে বাংলাদেশ, ব্রাজিল, কানাডা, চীন, কলম্বিয়া, ডমিনিকান রিপাবলিকান, আল সালভেদর, হাইতি, হন্ডুরাস, ভারত, জ্যামাইকা, মেক্সিকো, নাইজেরিয়া, পাকিস্তান, ফিলিপাইন, সাউথ কোরিয়া, যুক্তরাজ্য নেই এই কর্মসূচিতে। 

কারণ, এসব দেশের ইতিমধ্যেই লটারিতে অংশগ্রহণের কোটা পূরণ হয়ে গেছে। 

ঘোষণা অনুযায়ী ৯ নভেম্বর দুপুর পর্যন্ত এই লটারির আবেদন নেওয়া হবে। আর আগামী  বছর ৮ মে থেকে বিজয়ীদের নাম উঠবে লটারিতে। এই দফায় মোট ৫৫ হাজার জন বিজয়ী হবে। বিজয়ীর স্বামী/স্ত্রী, সন্তানেরাও ভিসার যোগ্য হবেন। 

আবেদন যথারীতি নেওয়া হচ্ছে স্টেট ডিপার্টমেন্টের ওয়েবসাইটে- https://dvprogram.state.gov/। 

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় যোগ্য দেশগুলোর নাগরিকদের কালক্ষেপণ না করে ওয়েবসাইটে আবেদন করার পরামর্শ দিয়েছে। আবেদন জমা দিতে কোনো ফি লাগবে না। জানা গেছে, গত বছর এ লটারিতে ৭৩ লাখ ৩৬ হাজার ৩০২ জন আবেদন করেছিলেন। বিজয়ী ৫৫ হাজার জনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ছিল মিসর, রাশিয়া, সুদান এবং আলজেরিয়া। 

উল্লেখ্য, যে সব দেশ কম ভিসা পাচ্ছে, কেবলমাত্র তারাই এ লটারিতে অন্তর্ভুক্ত হয়। বাংলাদেশ অনেক আগেই ডিভি লটারির আওতামুক্ত হয়েছে। এরপরও যুক্তরাষ্ট্রে সংঘবদ্ধ একটি চক্র এবারও ঢাকায় তাদের এজেন্টদের জানিয়েছে গ্রামের উচ্চশিক্ষিতদের আবেদন ওয়েবসাইটে পাঠানোর জন্য। 

আরও পড়ুন:


ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আইপিএল নিয়ে জুয়া, ৩ জনের সাজা

চট্টগ্রাম আদালত এলাকায় বোমা হামলা মামলার রায় আজ

টুইটার অ্যাকাউন্ট ফিরে পেতে আদালতে ট্রাম্প

যুবলীগ নেতার সঙ্গে ভিডিও ফাঁস! মামলা তুলে নিতে নারীকে হুমকি


 

এ জন্য তারা নির্দিষ্ট পরিমাণের ফি ধার্য করে দিয়েছে বলে নিউইয়র্কে ব্যাপক গুঞ্জন উঠেছে। এমন নিশ্চয়তাও দেওয়া হচ্ছে যে, তাদের মাধ্যমে আবেদন করলেই ভাগ্য প্রসন্ন হবে। এ ব্যাপারে সবাইকে সজাগ থাকার আহ্বান জানিয়েছে সংশ্লিষ্টরা। 

তারা জানান, বাংলাদেশের কোনো নাগরিক ডিভি লটারিতে আবেদনের যোগ্য নন। তাই তারা যেন কারও কথায় বিভ্রান্ত না হন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর