ইরানের কূটনীতি ব্যর্থ হলে অন্য পথ অনুসরণ করবে যুক্তরাষ্ট্র

অনলাইন ডেস্ক

ইরানের কূটনীতি ব্যর্থ হলে অন্য পথ অনুসরণ করবে যুক্তরাষ্ট্র

যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ কর্মকর্তারা মঙ্গলবার তাদের ইসরায়েলি সমকক্ষদের বলবেন যে বাইডেন প্রশাসন ইরানের সঙ্গে কূটনীতির প্রতি বদ্ধপরিকর, কিন্তু প্রয়োজনে তেহরান পারমাণবিক অস্ত্র অর্জন করবে না তা নিশ্চিত করার জন্য অন্যান্য পথ অনুসরণ করতে প্রস্তুত থাকবে।

আরব নিউজ জানায়, ইসরাইলের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা ইয়াল হুলাতার ওয়াশিংটন সফর দুই মিত্রকে গোয়েন্দা তথ্য ভাগ করে নেওয়ার এবং তেহরানের পারমাণবিক কর্মসূচি কতদূর এগিয়েছে তার একটি বেসলাইন মূল্যায়ন তৈরি করার অনুমতি দিবে।

অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের বিনিময়ে ২০১৫ সালের একটি চুক্তির আওতায় ইরান তার ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ কর্মসূচি বন্ধ করে দেয়। তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ২০১৮ সালে চুক্তিটি ত্যাগ করেন এবং ইসরাইল সরকার এটি পুনরুজ্জীবিত করার জন্য মার্কিন প্রচেষ্টার বিরোধিতা করে।


আরও পড়ুন

আজকের দিনটি আমাদের জন্য ঈদের দিনের মতো: ঢাবি উপাচার্য

নাইকো দুর্নীতি মামলায় খালেদার অভিযোগ গঠনের শুনানি ৪ নভেম্বর

পল্লবীর সেই তিন তরুণীসহ নিখোঁজ ৭ জনের মধ্যে উদ্ধার ৪

অর্থ আত্মসাত, স্বাস্থ্যের ঠিকাদার মোকছেদুল ইসলামের বিরুদ্ধে মামলা


মার্কিন বিশেষজ্ঞরা বিশ্বাস করেন যে পরমাণু বোমা তৈরির জন্য পর্যাপ্ত সমৃদ্ধ ইউরেনিয়াম পরমাণু ব্রেকআউট অর্জনে ইরানের সময় লাগবে ১২ মাস থেকে কয়েক মাস।  নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন কর্মকর্তা বলেন, অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের বিনিময়ে ট্রাম্প সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করা পর‌্যন্ত এই সময় লাগতে পারে।

মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা জ্যাক সুলিভানের সঙ্গে হুলাতার আলোচনার আগে ওই কর্মকর্তা সাংবাদিকদের বলেন, এটা বেশ উদ্বেগজনক।

ইরান ধারাবাহিকভাবে অস্বীকার করে আসছে যে তারা পারমাণবিক অস্ত্র তৈরি করছে।

আগস্টে ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী নাফতালি বেনেটের সঙ্গে হোয়াইট হাউসের বৈঠকে একজন কর্মকর্তা বলেন, আমরা অবশ্যই কূটনৈতিক সম্পর্কে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

কিন্তু প্রকৃতপক্ষে এটি যদি কাজ না করে তবে অন্য উপায়গুলিও অনুসরণ করতে হবে এবং আমরা পুরোপুরি প্রতিশ্রুতিবদ্ধ যে ইরান কখনই পারমাণবিক অস্ত্র তৈরি করবে না।

news24bd.tv/এমি-জান্নাত  

পরবর্তী খবর

সৌদি আরব সফর করছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট

অনলাইন ডেস্ক

সৌদি আরব সফর করছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট

আঞ্চলিক সফরের অংশ হিসেবে সৌদি আরব সফর করছেন  ফরাসি প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ। সৌদির ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমান তাকে সৌদি সফরের জন্য স্বাগত জানান। 

ম্যাক্রোঁ শনিবার সকালে জেদ্দায় পৌঁছান। এ সময় মক্কার গভর্নর ও রাজকীয় উপদেষ্টা প্রিন্স খালিদ আল ফয়সাল বিমানবন্দরে তাকে স্বাগত জানান। উপসাগরীয় সফরের অংশ হিসেবে ৩ থেকে ৪ ডিসেম্বরের মধ্যে তিনি সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও কাতার সফর করবেন।

আরও পড়ুন:

সিএনএনের সংবাদ উপস্থাপক বরখাস্ত

চট্টগ্রামেও হাফ ভাড়া নেওয়ার ঘোষণা

ম্যাক্রোঁ ইরানের সাথে একটি অঞ্চল-ব্যাপী শান্তি চুক্তি গঠনে সহায়তা করার জন্য সৌদি আরবকে গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করেন।

লেবানন, ইরানসহ বিদ্যুৎ, অর্থ ও পর্যটনসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে সহযোগিতা নিয়ে দুই দেশের মধ্যে আলোচনা হবে বলে আশা করেছেন দুই দেশের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান।

 news24bd.tv/এমি-জান্নাত  

পরবর্তী খবর

মালয়েশিয়ায় শ্রমিকের ঘাটতি

অনলাইন ডেস্ক

মালয়েশিয়ায় শ্রমিকের ঘাটতি

অর্থনৈতিক পুনরুদ্ধারে ২০২২ সালের মধ্যে মালয়েশিয়ায় ছয় লাখ বিদেশি কর্মীর প্রয়োজন। ফেডারেশন অব মালয়েশিয়ান ম্যানুফ্যাকচারার্স  শনিবার এক বিবৃতিতে এ কথা জানিয়েছে।

তারা বলেছে, দেশটির শিল্পখাত, বিশেষ করে রপ্তানিভিত্তিক খাতগুলোতে বর্তমান পরিস্থিতি কাটিয়ে উঠতে আগামী বছরের মধ্যে ছয় লাখেরও বেশি বিদেশি কর্মী দরকার হবে। তাদের ব্যবসাগুলোকে মহামারির আগের স্তরে ফিরিয়ে আনার জন্য তীব্র জনবল সংকটের সম্মুখীন হতে হচ্ছে।

আরও পড়ুন:

সিএনএনের সংবাদ উপস্থাপক বরখাস্ত

চট্টগ্রামেও হাফ ভাড়া নেওয়ার ঘোষণা

অক্টোবরের শুরুতে মালয়েশিয়ার ২৫২টি কোম্পানির জনবলের চাহিদার ওপর সমীক্ষা করে প্রায় ২২ হাজার শ্রমিকের ঘাটতি পাওয়া গেছে।

২০২০ সালের চতুর্থ ত্রৈমাসিকের (Q4 ২০২০) উৎপাদন খাতই ছিল একমাত্র অর্থনৈতিক খাত যেখানে ইতিবাচক প্রবৃদ্ধি ছিল ৩ শতাংশ এবং এই কর্মক্ষমতা ২০২১ সালের প্রথম ত্রৈমাসিকে প্রবল বৃদ্ধির সাথে অব্যাহত ছিল যেখানে উৎপাদন অন্যান্য সমস্ত অর্থনৈতিক খাতকে এগিয়ে নেয় ৬.৬ শতাংশ।

 news24bd.tv/এমি-জান্নাত  

পরবর্তী খবর

সিএনএনের সংবাদ উপস্থাপক বরখাস্ত

অনলাইন ডেস্ক

সিএনএনের সংবাদ উপস্থাপক বরখাস্ত

সিএনএনের সংবাদ উপস্থাপক ক্রিস কুমোকে বরখাস্ত করা হয়েছে। বড় ভাই নিউইয়র্কের সাবেক গভর্নর অ্যান্ড্রু কুমোকে যৌন নিপীড়নের মামলা লড়তে সহযোগিতা করায় তাকে চাকরি থেকে অব্যাহতি দিয়েছে মার্কিন এই সংবাদমাধ্যমটি । 

রোববার বিবিসির প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে। ভাইকে যৌন কেলেঙ্কারির মামলা থেকে বাঁচাতে নেপথ্যে ক্রিস চেষ্টা চালাচ্ছেন এই অভিযোগ ওঠার পর গত মঙ্গলবারই তাঁকে সাময়িক বরখাস্ত করে সিএনএন।

প্রতিষ্ঠানটি বলছে, ক্রিস তাঁর ভাইকে যে ধরনের পরামর্শ দিয়েছেন, তা সাংবাদিকতার নীতিবিরোধী। গত আগস্টে ১১ নারীকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ ওঠার পর পদত্যাগ করতে বাধ্য হন কুমো।

এই কেলেঙ্কারীতে সাহায্য করার জন্য আড়ালে থেকে তার ভূমিকা প্রকাশের পর মঙ্গলবার ক্রিস কুমোকে বরখাস্ত করা হয়।

আরও পড়ুন:

চট্টগ্রামেও হাফ ভাড়া নেওয়ার ঘোষণা

তবে শুরু থেকে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন নিউইয়র্কের সাবেক এই গভর্নর। তার  দাবি, তিনি রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার।

ক্রিস কুমো ২০১৩ সাল থেকে নেটওয়ার্কের জন্য কাজ করেন এবং এর স্বীকৃত সংবাদ উপস্থাপকদের একজন হয়ে উঠেছেন। সম্প্রতি 2২০২০ সালের মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের সিএনএন এর কভারেজের নেতৃত্ও দিয়েছেন তিনি।

 news24bd.tv/এমি-জান্নাত  

পরবর্তী খবর

ঘূর্ণিঝড় ‘জাওয়াদের’ প্রভাবে উত্তাল সমুদ্র, বৃষ্টি শুরু

অনলাইন ডেস্ক

ঘূর্ণিঝড় ‘জাওয়াদের’ প্রভাবে উত্তাল সমুদ্র, বৃষ্টি শুরু

জাওয়াদের প্রভাবে উত্তাল সমুদ্র

ঘূর্ণিঝড় জাওয়াদের প্রভাব পড়তে শুরু করেছে উপকূলীয় অঞ্চলগুলোতে। এরইমধ্যে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের উপকূলীয় এলাকাগুলিতেও দমকা হাওয়া বইতে শুরু করেছে। তবে ঘূর্ণিঝড়টি কিছুটা শক্তি হারিয়েছে। বলা হচ্ছে, শনিবারেই শক্তি হারিয়ে নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে জাওয়াদ। আজ রোববার তা আরও দুর্বল হয়ে সাধারণ নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে।

বর্তমানে ঘূর্ণিঝড়টি পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। রোববার দুপুর বা বিকালের দিকে ওড়িশ্যার উপকূলে আছড়ে পড়ার সম্ভাবনা জাওয়াদের। এটি ঘণ্টায় ১১ কিলোমিটার গতিবেগে ওড়িশা উপকূলের দিকে এগিয়ে আসছে বলে জানিয়েছিল দেশটির আবহাওয়া দফতর।

এদিকে জওয়াদ উপকূলে পুরোপুরি প্রবেশ না করলেও সকাল থেকেই দিঘার সমুদ্রে তীব্র জলোচ্ছ্বাস শুরু হয়েছে। উত্তাল পুরীর সমুদ্রও।

ভারতীয় গণমাধ্যম আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে এমনটিই তুলে ধরা হয়েছে।

শনিবার সকাল থেকেই ভারতের পশ্চিমবঙ্গে দিঘা, মন্দারমণিসহ পূর্ব মেদিনীপুরের উপকূল এলাকায় বৃষ্টি শুরু হয়েছে। ঘন কালো মেঘ আরও ঘনীভূত হয়ে ভয়ঙ্কর রূপ ধারণ করে। পাশাপাশি, বাতাশের গতিবেগও সময়ের সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে। উত্তাল হয়ে উঠেছে সমুদ্রও।

এদিকে, ঘূর্ণিঝড় ‘জাওয়াদের’ প্রভাবে রোববার ভোর থেকে চট্টগ্রামে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি  শুরু হয়েছে। সারাদেশের আকশই মেঘলা। আবহাওয়ার পূর্বাভাসে জানা যায়, চট্টগ্রাম সমুদ্র বন্দরকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্কতা সংকেত এবং নদী বন্দরকে ১ নম্বর নৌ সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

এ সময় উত্তর ও উত্তর-পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় ১২ থেকে ১৫ কিলোমিটার, অস্থায়ী বা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ৩০ থেকে ৪০ কিলোমিটার বেগে বাতাস প্রবাহিত হতে পারে।

আরও পড়ুন


বারবার শারীরিক সম্পর্ক, বিয়ের দাবিতে তরুণীর অনশন

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

শক্তি হারিয়ে গভীর নিম্নচাপে ঘূর্ণিঝড় 'জাওয়াদ'

অনলাইন ডেস্ক

শক্তি হারিয়ে গভীর নিম্নচাপে ঘূর্ণিঝড় 'জাওয়াদ'

ঘূর্ণিঝড়

শক্তি হারিয়ে এখন গভীর নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে ঘূর্ণিঝড় 'জাওয়াদ'। আজ রোববার দুপুরে তা ভারতের পুরীর উপকূলে পৌঁছে শক্তি হারাতে শুরু করবে।

আবহাওয়া বিভাগ জানিয়েছে, ঘূর্ণিঝড়ের বিপদ থেকে মুক্ত পশ্চিমবঙ্গ এবং ওড়িশা উপকূল। এরিমধ্যে বৃষ্টি শুরু হয়েছে ওড়িশার পুরীতে। সেই সঙ্গে বইছে তীব্র ঝোড়ো হাওয়া। অতি গভীর নিম্নচাপ এবং গভীর নিম্নচাপের প্রভাবে  বৃষ্টি হবে দুই রাজ্যে।

এদিকে, দুর্যোগ মোকাবিলায় প্রশাসনের পক্ষে প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। বাতিল করা হয়েছে বহু ট্রেন চলাচল।

 আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস অনুযায়ী, পুরীর দিকে ক্রমশ এগোচ্ছে ঘূর্ণিঝড় 'জওয়াদ'।  

আরও পড়ুন:


 

আরও পড়ুন:


আজ আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় 'জাওয়াদ'

news24bd.tv রিমু      

 

 

পরবর্তী খবর