বন্ধুকে সঙ্গে নিয়ে প্রেমিকাকে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে প্রেমিক
বন্ধুকে সঙ্গে নিয়ে প্রেমিকাকে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে প্রেমিক

বন্ধুকে সঙ্গে নিয়ে প্রেমিকাকে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে প্রেমিক

অনলাইন ডেস্ক

বন্ধুকে সঙ্গে নিয়ে সিলেটের একটি আবাসিক হোটেলে প্রেমিকাকে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে প্রেমিক। এই ঘটনায় হবিগঞ্জ জেলার বাহুবল মডেল থানা পুলিশ প্রেমিকসহ ওই বন্ধুকে গ্রেপ্তার করেছে।

অভিযুক্তরা হল - হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জ উপজেলার ববকান্দি গ্রামের মৃত হুদ খাঁর ছেলে জুয়েল খাঁ (২২) ও তার বন্ধু বরগাঁও গাজী মোকামের মৃত আহম্মদ মিয়ার ছেলে জুনেদ মিয়া (২৬)।

news24bd.tv

শুক্রবার (৮ অক্টোবর) দিবাগত রাতে এসব তথ্য নিশ্চিত করেন বাহুবল মডেল থানার ইন্সপেক্টর (তদন্ত) আলমগীর কবির।

এর আগে পুলিশের একটি দল অভিযান চালিয়ে শুক্রবার সকালে ওই দুইজনকে নবীগঞ্জের বরগাঁও এলাকা থেকে গ্রেফতার করে।

পুলিশি জেরায় প্রেমিক জুয়েল খাঁ জানায় - মোবাইল ফোনের মাধ্যমে ওই কিশোরীর সাথে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। জুয়েল প্রেমিকাকে তার সাথে দেখা করতে সিলেট শহরে আসতে বলে। এতে রাজি হয় প্রেমিকাও। ৬ অক্টোবর বিকেলের দিকে জুয়েল একটি সিএনজি চালিত অটোরিকশায় করে পানিউমদা নিয়ে আসে। এরপর সেখান থেকে বাসে করে তারা সিলেট পৌঁছায়।

আরও পড়ুন


ফোনে পরিচয়, ১৫ বছর বয়সী কিশোরীকে ডেকে নিয়ে দুজন মিলে ধর্ষণ

রোহিঙ্গা ক্যাম্পগুলো খুন, চাঁদাবাজি ও ধর্ষণসহ নানা অপরাধের অভয়ারণ্য

সূরা বাকারা: আয়াত ১১৮-১২৩, সত্যকে অবশ্যই গ্রহণ করতে হবে

দাপুটে জয়ে মিশন শুরু টাইগারদের


সিলেট কদমতলী থেকে জুয়েল ও তার বন্ধু জুনেদ মিলে সিলেট শহরের তালতলা আবাসিক হোটেল সুফিয়ার দ্বিতীয় তলার একটি রুমে নিয়ে কিশোরীকে রাতভর পালাক্রমে ধর্ষণ করে। পরদিন ৭ অক্টোবর সকালে তাকে (কিশোরী) বাসে উঠিয়ে দুপুরে নবীগঞ্জের পানিউমদায় নামিয়ে দিয়ে জুনেদ মিয়া সটকে পড়ে।

পরে বিষয়টি স্বজনদের জানায় ওই কিশোরী। স্বজনরা বিষয়টি বাহুবল মডেল থানা পুলিশকে জানান। পুলিশের তাৎক্ষণিক তৎপরতায় আসামিদের গ্রেপ্তার করা হয়। ধর্ষণের শিকার কিশোরী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

ইন্সপেক্টর (তদন্ত) আলমগীর কবির জানান, আসামি গ্রেপ্তারে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়েছে। সিএনজি চালককে পুলিশ গ্রেপ্তার করতে অভিযান অব্যাহত রেখেছে। এ ঘটনায় কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না বলেও জানান তিনি।

news24bd.tv এসএম