১২০০ স্বাস্থ্যকেন্দ্রের সেবার দরজা বন্ধ

অনলাইন ডেস্ক

১২০০ স্বাস্থ্যকেন্দ্রের সেবার দরজা বন্ধ

নওগাঁর নিয়ামতপুরের শিবপুর ইউনিয়নে বছর দুয়েক আগে নির্মাণ করা হয় ১০ শয্যাবিশিষ্ট মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্র। প্রায় পাঁচ কোটি টাকা ব্যয়ে তৈরি তিনতলা এই কেন্দ্রটি এখনো চালুই করা যায়নি। কারণ যাঁরা চালাবেন তাঁরা কেউ নেই। পদায়ন হয়নি। এই জেলায় এমন স্বাস্থ্যকেন্দ্র আছে আরো তিনটি। একটি এখনো বুঝে পায়নি জেলা পরিবার কল্যাণ দপ্তর। বাকি দুটি বুঝে পেলেও নেই জনবল। মাঝে মধ্যে আশপাশের অন্য স্বাস্থ্যকেন্দ্র থেকে দু-একজন কর্মী ডেকে এনে জরুরি কাজ সারা হয়।

শুধু নওগাঁ নয়, আরো কয়েকটি জেলায় নতুন নির্মিত এসব স্বাস্থ্যকেন্দ্রের চিত্র এমনই। পরিসর বাড়িয়ে নতুন নকশায় প্রায় ১০০টি স্বাস্থ্যকেন্দ্রের নির্মাণকাজ হলেও খালি পড়ে আছে। আর আগে করা দোতলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রগুলোর মধ্যে প্রায় ১২০০ পরিত্যক্ত বলে সরকারের সংশ্লিষ্ট দপ্তর সূত্রে জানা গেছে। নতুনগুলো যেমন চালু করা যাচ্ছে না জনবলের অভাবে, তেমনি পুরনোগুলোও জনবলের অভাবে অচল থাকতে থাকতে ভবন ব্যবহারের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।

নওগাঁ জেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের উপপরিচালক ড. কস্তুরি আমিনা কুইন বলেন, ‘ভবনগুলো খুবই সুন্দর। ভেতরে আসবাব-যন্ত্রপাতি সবই আছে। কিন্তু জনবল নেই। চালাব কী করে। শুধু নতুনগুলোই নয়, পুরনোগুলোও জনবলের অভাবে চালাতে হচ্ছে জোড়াতালি দিয়ে। পরিত্যক্ত কোনো কোনো পুরনো ভবন আবার তৈরির প্রস্তাব মাঠ পর্যায় থেকে সংশ্লিষ্ট দপ্তরে পাঠানো হয়েছে।’

তিনতলা নতুন ভবনগুলোতে চিকিৎসক থেকে শুরু করে প্রহরী পর্যন্ত সবার জন্য আবাসিক ব্যবস্থা রয়েছে। পুরনো ভবনগুলোতেও উপসহকারী কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসার (স্যাকমো) ও পরিবার কল্যাণ পরিদর্শক (এফডাব্লিউভি) থাকার জন্য আলাদা কক্ষ আছে। কিন্তু তাঁদের বেশির ভাগই থাকছেন না। এ ছাড়া দালালের খপ্পরে পড়ে রোগীদের বেসরকারি হাসপাতালে চলে যাওয়াও এসব কেন্দ্র অচল হয়ে পড়ার অন্যতম কারণ।

মাঠ পর্যায়ে আগে করা কেন্দ্রের নাম দেওয়া হয়েছিল ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র। আর নতুন ১০ শয্যার কেন্দ্রের নাম মা ও শিশু কল্যাণ কেন্দ্র। এসব কেন্দ্রে দেওয়া হয় বিনা মূল্যে মা ও শিশু স্বাস্থ্যসেবা, গর্ভবতী সেবা, গর্ভোত্তর সেবা, এমআর (মাসিক নিয়মিতকরণ) সেবা, সাধারণ রোগীর সেবা, পাঁচ বছরের কম বয়সী শিশুদের সেবা, প্রজননতন্ত্রের যৌনবাহিত রোগের সেবা, সম্প্রসারিত টিকাদান কর্মসূচি (ইপিআই) বাস্তবায়ন, ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল বিতরণ, পরিবার পরিকল্পনা বিষয়ক পরামর্শ দান, খাবার বড়ি, জন্মনিরোধক, স্বাস্থ্য ও পুষ্টি বিষয়ক শিক্ষামূলক সেবা।

নতুনভাবে করা কেন্দ্রগুলোর প্রতিটিতে দুইজন মেডিক্যাল অফিসার, চারজন পরিবার কল্যাণ পরিদর্শক (এফডাব্লিউভি), একজন ফার্মাসিস্ট, একজন কম্পিউটার অপারেটসহ ১৪ জনের জনবল কাঠামো রয়েছে। এর মধ্যে ১০ জন রাজস্ব খাতে আর চারজন আউটসোর্সিংয়ের মাধ্যমে নিয়োগ করার কথা।

পুরনো কেন্দ্রগুলোতে স্যাকমো ও এফডাব্লিউভির পদ রয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্র থেকে একজন মেডিক্যাল অফিসার সপ্তাহে দুই দিন গিয়ে রোগী দেখার কথা।

বরিশাল জেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের উপপরিচালক ডা. মো. তৈয়বুর রহমান বলেন, ‘খুবই মায়া লাগছে ভবনগুলোর পরিত্যক্ত অবস্থা দেখে। তাই মাঝে মধ্যে চেষ্টা করছি বিভিন্ন জায়গা থেকে লোকজন ধার করে হাসপাতালগুলো একটু খোলা রাখার। রোগীও ডেকে আনার চেষ্টা করি। কিন্তু আমাদের সব জায়গায়ই একই অবস্থা, কোত্থেকে কতজন আনব।’ বরিশালে এখন পর্যন্ত ১০ শয্যার ৯টি স্বাস্থ্যকেন্দ্র বুঝে পেয়েছেন জানিয়ে তিনি বলেন, ‘অন্য জনবল তো দূরের কথা, একজন গার্ড পর্যন্ত নেই—যে এই ভবনগুলো অন্তত পক্ষে পাহারা দিয়ে রাখবে।’

শরীয়তপুরের জেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের উপপরিচালক সোহেল রেজা বলেন, নতুনগুলো বাদে পুরনো ৩৪টি ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র রয়েছে ওই জেলায়। সেগুলো কোনো মতে টেনেটুনে চালিয়ে রাখার চেষ্টা করছেন তাঁরা। ২৫৯টি পদের বিপরীতে আছে ১০৬ জন। ছয় উপজেলায় মেডিক্যাল অফিসার আছেন মাত্র একজন। প্রতিটি উপজেলায় সহকারী পরিচালকের পদ থাকলেও ওই জেলায় একজনও নেই।

সোহেলা রেজা জানান, নতুন পাঁচটি স্বাস্থ্যকেন্দ্র বুঝে পেয়েছেন। কিন্তু জনবল নেই। ধার করে চালু রাখার চেষ্টা করে যাচ্ছেন।

২০০৬ সালে ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার সদর ইউনিয়নে স্থানীয় আবদুল আজিজ সরকার ও আফাজ উদ্দিন সরকারের দান করা সাড়ে ৩২ শতাংশ জমি ওপর নির্মিত হয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের দোতলা ভবন। ৭৫ লাখ টাকা ব্যয়ে নির্মিত ভবনটি জনবল সংকটের ফলে চালু করতে না পারায় দীর্ঘদিন পরিত্যক্ত অবস্থায় পড়ে আছে। নষ্ট হচ্ছে পাঁচ লক্ষাধিক টাকার আসবাবপত্র ও বিভিন্ন সরঞ্জাম। এটি পরিত্যক্ত থাকায় মানুষকে ছুটতে হয় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে।

ত্রিশালের ওই স্বাস্থ্যকেন্দ্রের পাশের বাসিন্দা নাজমুল হক বলেন, ‘আমার স্ত্রীর ব্যথা শুরু হলে উপজেলা হাসপাতালে নেওয়ার সময় পথেই সন্তান প্রসব হয়ে যায়। শুধু আমার স্ত্রীর বেলায় নয় এমন অনেক ঘটনাই এই এলাকায় ঘটেছে।’

জমিদাতা আবদুল আজিজ সরকারের ছেলে সারোয়ার জাহান জুয়েল বলেন, ‘স্থানীয় লোকজন দ্রুত চিকিৎসা সুবিধা পাবে সেটা চিন্তা করেই আমার বাপ-চাচারা ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের জন্য জমি দান করেছেন। অথচ দীর্ঘদিন অতিবাহিত হওয়ার পরও আমরা সুবিধা বঞ্চিতই রয়ে গেলাম।’

ত্রিশাল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মা ও শিশু স্বাস্থ্য বিষয়ক মেডিক্যাল অফিসার ডা. লুত্ফুর কবীর জানান, ওই স্বাস্থ্যকেন্দ্রটি থেকে জনবলের অভাবে গ্রামের মা ও শিশুদের স্বাস্থ্যসেবা দেওয়া যাচ্ছে না। বিকল্প হিসেবে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের পরিবার কল্যাণ পরিদর্শকের মাধ্যমে কিছু সেবা কার্যক্রম চালিয়ে যাওয়া হচ্ছে। 

এ ব্যাপারে উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা নাজমুর রওশান সুমেল বলেন, জনবল নিয়োগের জন্য স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ে বেশ কয়েকবার লিখিত আবেদন করা হয়েছে।

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে পাঁচবাগ ইউনিয়ন স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ভবনটি কয়েক দশক আগে নির্মিত। আনুষ্ঠানিকভাবে পরিত্যক্ত ঘোষণা না হলেও ভবনটি ব্যবহার অনুপযোগী হয়ে আছে প্রায় ১৫-২০ বছর। এখন কেন্দ্রের চিকিৎসাসেবা চলে পাশেই অবস্থিত ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা স্বাস্থ্যকেন্দ্রের আবাসিক ভবনে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মাইন উদ্দিন খান বলেন, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে এই স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ভবনটি পুনর্নির্মাণের জন্য প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে।

পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর সূত্র জানায়, সারা দেশে ২০১৪ সালের আগেই তিন হাজার ৩৮৪টি ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র ছিল। সবই একই মডেলে তৈরি। এরপর ২০১৪ সাল থেকে আবার ১৫৯টি ১০ শয্যার নতুন স্বাস্থ্যকেন্দ্র স্থাপন শুরু হয়েছে।

জানতে চাইলে পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তরের পরিচালক (মা ও শিশু) ডা. মোহাম্মদ শরীফ বলেন, ‘আমাদের বহু রকম সমস্যার মধ্য দিয়ে কাজ করতে হচ্ছে। সবচেয়ে বড় সমস্যা জনবলের। যারা আছে তারাও সমস্যা তৈরি করার কারণে সেবা ব্যাহত হচ্ছে। কিছু হয় ব্যবস্থার কারণে।’ তিনি জানান, আগের তিন হাজার ৩৮৪টি কেন্দ্রের মধ্যে সর্বশেষ হিসাব অনুসারে এক হাজার ১৮৪টি কার্যত অচল হয়ে পড়েছে। এর পেছনে কয়েক ধরনের কারণ আছে। দুই হাজার ৫০০ জন স্যাকমোর বিপরীতে আছেন এক হাজার ৭০০ জন, পাঁচ হাজার ৭০০ জন এফডাব্লিউভির বিপরীতে আছেন চার হাজার ২০০ জন। যাঁরা আছেন তাঁদের অনেকেই যার যার কর্মস্থলে নেই। তদবির করে অন্য জায়গায় চলে যান। এমনকি মাঠ পর্যায়ের অনেক পদ খালি রেখে অনেকে ঢাকায় কাজ করছেন। অন্যদিকে বেশির ভাগ কেন্দ্রে প্রহরী নেই, আয়া নেই। এ ছাড়া কৌশল করে এই কেন্দ্রগুলো অচল করে দেওয়ার মতো অভিযোগ আসে। কারো কারো বিরুদ্ধে বিভিন্ন সময় ব্যবস্থাও নেওয়া হয়েছে।

ডা. শরীফ জানান, ২০১৪ সাল থেকে তৈরি হওয়া ভবনগুলোও জনবলের অভাবে পরিত্যক্ত হওয়ার আশঙ্কায় রয়েছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন:


‘তদবির’ করার আগে দেখা করতেই লাগত এক লাখ!

৬৮ বছর পর রাষ্ট্রীয় বিমান এয়ার ইন্ডিয়া আবারও কিনলো টাটা সন্স

বিশ্রামে সতেজ হওয়ার চেষ্টা

উত্তেজিত হয়েই এলোমেলোভাবে ৬ ছাত্রের চুল কেটে দেন সেই মাদরাসা শিক্ষক


এ বিষয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য শিক্ষা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মো. শাহ আলম বলেন, ‘বিষয়টি আমাদের জন্য খুবই কষ্টের। আমাদের প্রায় আট হাজার পদ খালি আছে। তবে এখন আশা করি এই সমস্যা অনেকটাই সমাধান হবে। এরই মধ্যে কেন্দ্র থেকে এবং মাঠ পর্যায় থেকেও নিয়োগপ্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তিও দেওয়া হয়েছে। ১০ শয্যার স্বাস্থ্যকেন্দ্রগুলোতে জনবল কাঠামো এরই মধ্যে অনুমোদন হয়েছে। করোনার কারণে নিয়োগপ্রক্রিয়া বিলম্বিত হয়েছে।’ তিনি জানান, আগামী ২২ অক্টোবর এক দফা নিয়োগ পরীক্ষা আছে।

সূত্র : কালের কণ্ঠ 

পরবর্তী খবর

যুক্তরাজ্যে ঢুকতে দেওয়া হয়নি মিজানুর রহমান আজহারীকে

অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাজ্যে ঢুকতে দেওয়া হয়নি মিজানুর রহমান আজহারীকে

বিতর্কিত ইসলামী বক্তা মিজানুর রহমান আজহারী। লন্ডনে 'আই অন টিভি'র আমন্ত্রণে আগামী ৩১ অক্টোবর একটি ইসলামী কনফারেন্সে যোগ দেওয়ার কথা ছিল তাঁর। কিন্তু  তাঁকে যুক্তরাজ্যে ঢুকতে দেয়নি দেশটির হোম অফিস। 

আজহারীর যুক্তরাজ্যে আসার সংবাদে ক্ষুব্ধ ছিলেন যুক্তরাজ্যের প্রগতিশীল রাজনীতি  মানবাধিকার কর্মী ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বরা।

জানা গেছে, মিজানুর রহমান আজহারী মঙ্গলবার (২৬ অক্টোবর) রাতে মালয়শিয়া থেকে কাতার বিমানবন্দরে পৌঁছানোর পর যখন আজহারী লন্ডনের ফ্লাইটে উঠার জন্য সংশ্লিষ্ট গেটে আসেন তখনই সেখান থেকে তাঁর ব্রিটেনে আসার ফ্লাইটে উঠতে দে‌ওয়া হয়নি। কেন তাঁকে এই ফ্লাইটে উঠতে দে‌ওয়া হয়নি, অথবা তাঁর ভিসা বাতিল করা হয়েছে কি না এ সম্পর্কে এখনো কোনো তথ্য জানা যায়নি। 

সর্বশেষ খবর অনুযায়ী কাতার বিমানবন্দর থেকেই গত ১০/১২ ঘণ্টা ধরে চেষ্টা করা হচ্ছে সমস্যা সমাধানের। 

জানা গেছে, মিজানুর রহমান আজহারী মালয়শিয়া থেকে ব্রিটেনে একটি টিভির আমন্ত্রণে আসছিলেন। আগামী ৩১ অক্টোবর রবিবার থেকে লন্ডনসহ ব্রিটেনের ৫টি শহরে ইসলামী বক্তব্যের আয়োজন করা হয় ব্রিটেনের একটি টিভির পক্ষ থেকে। 

আজহারী আসার খবরের পর থেকেই কমিউনিটিতে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গেছে। অনেকেই আয়োজক টিভির ব্যানারে আজহারীর আগমনকে স্বাগত জানিয়েছেন আবার একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি থেকে শুরু করে প্রগতিশীল ও মুক্তিযুদ্ধের স্বপক্ষের অনেক মানুষ আজহারীর সফরের বিরোধিতা করে আসছিলেন। ব্রিটিশ এমপি থেকে শুরু করে হোম অফিসসহ বিভিন্ন সংশ্লিষ্ট জায়গায় মিজানুর রহমান আজহারীর বিভিন্ন বক্তব্য যেখানে ধর্মীয়ভাবে অন্য ধর্মকে আঘাত করা হয়েছে, যেসব বক্তব্য ঘৃণা ছড়ায় এমন সব ভিডিও পাঠানো হয়েছে।

আরও পড়ুন:


চুল কিভাবে কাটতে হবে নিয়ম জারি ইউপি চেয়ারম্যানের!

যশোরে ৫ শিশুকে বলাৎকার! যুবক গ্রেফতার


সফর বাতিল হওয়ার বিষয়ে আয়োজক টিভির সিইওর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তিনি ফোন ধরেননি। এছাড়া টেক্সট পাঠানো হলেও সেটার কোনো উত্তর পাওয়া যায়নি।

এছাড়া মিজানুর রহমানের মালয়েশিয়ার হোয়াটসঅ্যাপ নম্বরে যোগাযোগ করলে ও কোনো উত্তর পাওয়া যায়নি। সূত্র: কালের কণ্ঠ 

news24bd.tv রিমু  

 

পরবর্তী খবর

আজ প্রেসক্লাব কলকাতায় উদ্বোধন হবে ‘বঙ্গবন্ধু সংবাদ কেন্দ্র’

অনলাইন ডেস্ক

আজ প্রেসক্লাব কলকাতায় উদ্বোধন হবে ‘বঙ্গবন্ধু সংবাদ কেন্দ্র’

প্রেসক্লাব কলকাতায় ‘বঙ্গবন্ধু সংবাদ কেন্দ্র’ উদ্বোধন হচ্ছে  আজ বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) বিকেলে। তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ কেন্দ্রটি উদ্বোধন করবেন। 

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর সম্মানে বাংলাদেশ সরকারের সহায়তায় কেন্দ্রটি স্থাপিত হচ্ছে। 

আধুনিক ডিজিটাল সুবিধা-সমৃদ্ধ সংবাদ কেন্দ্রে কম্পিউটার, স্ক্যানার, প্রদর্শন হল, একটি লাইব্রেরি, একটি ওভারহেড প্রজেক্টর ও বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের ওপর বেশকিছু ডিজিটাল সম্ভার থাকবে।

এর আগে গত মাসে মন্ত্রী নয়াদিল্লীতে প্রেসক্লাব অব ইন্ডিয়া (পিসিআই)-এ ‘বঙ্গবন্ধু মিডিয়া সেন্টার’ উদ্বোধন করেন- যা ছিল দেশটিতে এ ধরনের প্রথম কেন্দ্র।

ক্লাবের সভাপতি স্নেহাশিস সুর বলেন, বাংলাদেশ সরকার বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকী ও বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে এই মিডিয়া সেন্টারটি স্থাপন করছে।

তিনি বলেন, মিডিয়া সেন্টারটি উপমহাদেশের কিংবদন্তী রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি সম্মান। সেন্টারটি নতুন প্রজন্মকে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের পাশাপাশি বঙ্গবন্ধু সম্পর্কে জানতে সহায়ক হবে।

বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধে প্রেসক্লাব সদস্যদের অবদানের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর নামে এ ধরনের একটি কেন্দ্র প্রতিষ্ঠা মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালনকারী এই ক্লাবের সদস্যদের স্বীকৃতি।

আরও পড়ুন:

সব ধর্মের মানুষের জন্য মাদ্রাসা উন্মুক্ত করে দেওয়া হোক : জাফরুল্লাহ

৬ শিশুকে বলাৎকারের অভিযোগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা সাময়িক বহিস্কার

ইংল্যান্ড ম্যাচের আগে টাইগার শিবিরে বড় দুটি দুঃসংবাদ


 

বাংলাদেশের তথ্যমন্ত্রী প্রধান অতিথি হিসেবে মিডিয়া সেন্টারটির উদ্বোধন উপলক্ষে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন। বর্তমানে মন্ত্রী চার দিনের সরকারি সফরে পশ্চিমবঙ্গে রয়েছেন। তিনি অন্যান্যদের মধ্যে রাজ্য বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা করবেন। 

সুত্র বাসস

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত দুটোই বাড়লো

অনলাইন ডেস্ক

করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত দুটোই বাড়লো

সারাদেশে করোনাভাইরাসে  গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময় রোগী শনাক্ত হয়েছে ৩০৬ জন। এর আগে গতকাল ৬ জনের মৃত্যু এবং ২৭৬ জন রোগী শনাক্ত হয়।

আজ বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো করোনাবিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।


বিজ্ঞপ্তির তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১৯ হাজার ৯১৮ জনের। পরীক্ষা করা হয়েছে ১৯ হাজার ৯৫১টি। এ পর্যন্ত মোট ১ কোটি ২ লাখ ৮২ হাজার ৫৮টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে রোগী শনাক্ত হয়েছে ১৫ লাখ ৬৮ হাজার ৫৬৩ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ২৭ হাজার ৮৪১ জনের।

এ ছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছে ২৮৮ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে ১৫ লাখ ৩২ হাজার ৪৬৮ জন।

আরও পড়ুন:

ইংল্যান্ড ম্যাচের আগে টাইগার শিবিরে বড় দুটি দুঃসংবাদ

শাহরুখের সাথে জুটি থেকে সরে দাঁড়ালেন নায়িকা

নতুন নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ১ দশমিক ৫৩ শতাংশ। মোট পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ১৫ দশমিক ২৬ শতাংশ।

news24bd.tv/এমি-জান্নাত  

পরবর্তী খবর

এসএসসি পরীক্ষা কবে থেকে তা জানা গেল

অনলাইন ডেস্ক

এসএসসি পরীক্ষা কবে থেকে তা জানা গেল

১৪ নভেম্বর থেকে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষা শুরু হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী দিপু মনি। 

আজ বুধবার (২৭ অক্টোবর) শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান শিক্ষামন্ত্রী।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ এর আগে জানায়, চলতি বছরের এসএসসি ও সমমান এবং এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষার অনুষ্ঠিত হবে। বলা হয়েছিল, ১৪ নভেম্বর থেকে এসএসসি এবং ২ ডিসেম্বর থেকে এইচএসসি পরীক্ষার অনুষ্ঠিত হবে।

news24bd.tv/তৌহিদ

পরবর্তী খবর

ঘাটে ভেড়ার সময় ট্রাকসহ হেলে পড়লো ফেরি (ভিডিও)

অনলাইন ডেস্ক

ঘাটে ভেড়ার সময় ট্রাকসহ হেলে পড়লো ফেরি (ভিডিও)

মানিকগঞ্জের পাটুরিয়ায় শাহ আমানত নামের একটি রো রো ফেরি কাত হয়ে আংশিক ডুবে গেছে। এ সময় ফেরিতে থাকা কয়েকটি ট্রাক পদ্মায় ডুবে যায়। 

আজ সকাল পৌনে ১০টার দিকে পাটুরিয়ায় ৫ নম্বর ঘাটে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ফেরির ডুবে যাওয়া একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, কয়েক মিনিটের মধ্যে ট্রাকসহ ফেরিটি কাত হয়ে ঘাটেই আংশিক ডুবে যায়। এ সময় কয়েকটি ট্রাক ভাসতে থাকে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন করপোরেশনের (বিআইডব্লিউটিসি) দৌলতদিয়া কার্যালয়ের ব্যবস্থাপক মো. জামাল হোসেন বলেন, বুধবার (২৭ অক্টোবর) সকাল ৯টার দিকে দৌলতদিয়ার ৫ নম্বর ঘাট থেকে ১৭টি ট্রাক নিয়ে রো রো ফেরি আমানত শাহ মানিকগঞ্জের পাটুরিয়ার উদ্দেশে ছেড়ে যায়। ফেরিটি সকাল পৌনে ১০টার দিকে পাটুরিয়ার ৫ নম্বর ঘাটে কাত হয়ে আংশিক ডুবে যায়।

এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছেন বিআইডব্লিউটিসি পরিচালক (বাণিজ্য) এস এম আশিকুজ্জামান।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর