মুহিবুল্লাহ হত্যাকাণ্ড: দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিলেন ইলিয়াছ

অনলাইন ডেস্ক

মুহিবুল্লাহ হত্যাকাণ্ড: দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দিলেন ইলিয়াছ

কক্সবাজারের উখিয়ায় রোহিঙ্গাদের শীর্ষ নেতা মুহিবুল্লাহকে গুলি করে হত্যা মামলায় গ্রেফতার রোহিঙ্গা নাগরিক মোহাম্মদ ইলিয়াছ আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন। গতকাল রবিবার দুপুরে বিষয়টি জানিয়েছেন কক্সবাজারের পুলিশ সুপার মো. হাসানুজ্জামান।

হাসানুজ্জামান বলেন, রোহিঙ্গা নেতা মুহিবুল্লাহ হত্যা মামলায় এই পর্যন্ত পাঁচজনকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে প্রত্যেককে তিন দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। শনিবার (৯ অক্টোবর) তিন দিনের রিমান্ড শেষে মোহাম্মদ ইলিয়াসকে আদালতে আনা হয়। পরে সে কক্সবাজার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. হেলাল উদ্দিনের কাছে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। 

এর আগে গত ৩ অক্টোবর দুপুরে ১৪-এপিবিএন সদস্যরা উখিয়ার কুতুপালং রোহিঙ্গা ক্যাম্প-৫ এ অভিযান চালিয়ে রোহিঙ্গা নাগরিক মো. ইলিয়াসকে (৩৫) গ্রেফতার করে উখিয়া থানায় সোপর্দ করে। ১ অক্টোবর দুপুরে উখিয়ার কুতুপালং ক্যাম্প-৬ থেকে মোহম্মদ সেলিমকে (৩৩), ২ অক্টোবর ভোরে কুতুপালং  রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে জিয়াউর রহমান ও আবদুস সালামকে ১৪ এপিবিএন সদস্যরা গ্রেফতার করে উখিয়া থানায় হস্তান্তর করেন। একইদিন বিকালে উখিয়া থানা পুলিশ শওকত উল্লাহ (২৩) নামে আরেকজনকে কুতুপালং ক্যাম্প থেকে গ্রেফতার করে। উল্লেখ্য, ২৯ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে ৮টার দিকে উখিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পে নিজ সংগঠনের কার্যালয়ে অবস্থানকালে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত হন রোহিঙ্গাদের শীর্ষ নেতা মুহিবুল্লাহ।

আরও পড়ুন:


কারা নিয়ন্ত্রণ করে রোহিঙ্গা ক্যাম্প

পরকীয়ার জেরে শ্যালিকার বিয়ে ভাঙলেন দুলাভাই, অপত্তিকর ছবি!

অ্যালকোহল চুরির অভিযোগ!

বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ, অন্তঃসত্ত্বা তরুণী


এ ঘটনায় ৩০ সেপ্টেম্বর রাতে অজ্ঞাতনামা আসামি দেখিয়ে উখিয়া থানায় ৩০২/৩৪ ধারায় মামলা করেন তার ছোট ভাই হাবিব উল্লাহ।

সূত্র: বাংলাদেশ প্রতিদিন

news24bd.tv রিমু

পরবর্তী খবর

আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যাপক হানিফ আর নেই

আকবর হোসেন সোহাগ, নোয়াখালী

আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যাপক হানিফ আর নেই

বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক মো. হানিফ

আওয়ামী লীগের জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাবেক কৃষি বিষয়ক সম্পাদক, মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক মো. হানিফ আর নেই (ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্নইলাহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৫ বছর। এই বীর মুক্তিযোদ্ধা সাবেক গণপরিষদ ও সংসদ সদস্য এবং নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ছিলেন। 

শনিবার (৪ ডিসেম্বর) সকাল ১১ টায় ঢাকার নিজ বাসভবনে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক ও নোয়াখালী পৌরসভার মেয়র শহিদ উল্যাহ খান সোহেল এ তথ্য নিশ্চিত করেন। 
অধ্যাপক মো. হানিফ নোয়াখালী সদর উপজেলার মাইজদী বাজার এলাকার বাসিন্দা ছিলেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল প্রায় ৮৫ বছর। তিনি ১৯৩৯ সালে জন্ম গ্রহণ করেন। তিনি ৩ ছেলে ও ২ মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

অধ্যাপক মো. হানিফ দীর্ঘদিন যাবত বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন। তার মৃত্যুতে আত্মীয় স্বজনসহ রাজনৈতিক মহলের সর্বত্র শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তার মৃত্যুতে নোয়াখালী জেলা আওয়ামী লীগ তিন দিনের শোক ঘোষণা করেছে এবং জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে দলীয় পতাকা অর্ধনমিত করা হয়েছে। আগামীকাল সকাল সাড়ে নয়টায় নোয়াখালী জেলা স্কুল প্রাঙ্গনে তাঁর জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।

বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ ও মহান মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক অধ্যাপক মো. হানিফের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের ও নোয়াখালীর আওয়ামী লীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা।

এক শোকবার্তায় ওবায়দুল কাদের প্রয়াত মোহাম্মদ হানিফের শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান এবং তার বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন।

আরও পড়ুন


রাজনৈতিক দলের উস্কানিতে রাস্তায় শিক্ষার্থীরা: ওবায়দুল কাদের

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

রাজশাহীর সেই মেয়রের অবৈধ মার্কেট উচ্ছেদ

অনলাইন ডেস্ক

রাজশাহীর সেই মেয়রের অবৈধ মার্কেট উচ্ছেদ

উচ্ছেদ করা হচ্ছে মেয়র আব্বাসের মার্কেট

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল নিয়ে কটূক্তি এবং ম্যুরাল নির্মাণ প্রতিহতের ঘোষণা দেওয়া রাজশাহীর কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলীর দোতলা মার্কেট উচ্ছেদ অভিযান শুরু করেছে প্রশাসন। মেয়র আব্বাস সরকারি ড্রেন দখল করে এই মার্কেট নির্মাণ করেছেন।

শনিবার (৪ ডিসেম্বর) সকাল নয়টার দিকে শুরু হয় এই উচ্ছেদ অভিযান। এতে নেতৃত্ব দিচ্ছেন পবা উপজেলার সহকারী কমিশনার ভূমি ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শেখ এহসান উদ্দীন।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শেখ এহসান উদ্দীন জানান, দ্বিতীয় বার আওয়ামী লীগের মনোনয়ন নিয়ে কাটাখালি পৌরসভার মেয়র নির্বাচিত হওয়ার পর আব্বাস আলী কাটাখালী বাজারের দুইপাড়ে বিএমডিএ'র খালের ৬ শতক দখল করে তার উপর দুটি দোতলা মার্কেটের নির্মাণ কাজ শুরু করেন। বিষয়টি জানতে পেরে রাজশাহী জেলা প্রশাসক আব্দুল জলিল মেয়র আব্বাস আলীকে দুইবার চিঠি দিয়ে সেই মার্কেট নির্মাণ বন্ধ করে দেন। শনিবার অবৈধভাবে নির্মাণ করা দুটি মার্কেট উচ্ছেদ করা হচ্ছে।

এর আগে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল নিয়ে কটূক্তি এবং ম্যুরাল নির্মাণ প্রতিহতের ঘোষণার অভিযোগে রাজশাহীর কাটাখালী পৌরসভার মেয়র আব্বাস আলীর বিরুদ্ধে নগরীর ৩ থানায় তিনটি মামলা করা হয়।

এর একটি রাজশাহীর বোয়ালিয়া মডেল থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলায় গত ৩০ নভেম্বর ঢাকার একটি আবাসিক হোটেল থেকে র‍্যাব তাকে গ্রেফতার করে।

তারও আগে কাটাখালী পৌর আওয়ামী লীগের আহবায়ক ও জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য পদ থেকে তাকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। এছাড়াও মেয়র আব্বাস আলীর ওপর অনাস্থা চেয়ে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ে চিঠি দেয় পৌরসভার ১২ কাউন্সিলর।

আরও পড়ুন


দিনাজপুরে শীতের তীব্রতা কিছুটা কম, রয়েছে মেঘলা আকাশ

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

গত ২৪ ঘন্টায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ৭৫

অনলাইন ডেস্ক

গত ২৪ ঘন্টায় মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেপ্তার ৭৫

প্রতীকী ছবি

রাজধানীর ঢাকায় গত ২৪ ঘন্টায় অভিযান চালিয়ে মাদক বিক্রি ও সেবনের অপরাধে ৭৫ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) এ অভিযান চালায়।

শুক্রবার (৩ ডিসেম্বর) সকাল ৬টা থেকে শনিবার (৪ ডিসেম্বর) ভোর ৬টা পর্যন্ত রাজধানীর বিভিন্ন থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

ডিএমপির মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার (এডিসি) হাফিজ আল আসাদ জানান, তাদের কাছ থেকে ১৬ হাজার ৬৯৮ পিস ইয়াবা, ২১৫ গ্রাম ৫৭৫ পুরিয়া হেরোইন ও ১৮ কেজি ৯৮০ গ্রাম গাঁজা জব্দ করা হয়েছে।

আসামিদের বিরুদ্ধে ডিএমপির থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ৪৭টি মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

news24bd.tv/ কামরুল 

পরবর্তী খবর

দিনাজপুরে শীতের তীব্রতা কিছুটা কম, রয়েছে মেঘলা আকাশ

ফখরুল হাসান পলাশ, দিনাজপুর

দিনাজপুরে শীতের তীব্রতা কিছুটা কম, রয়েছে মেঘলা আকাশ

দেশের অন্যান্য জেলার তুলনায় উত্তরাঞ্চলে শীতের প্রভাব অনেকটা বেশী। পাশাপাশি শীতের আাগমন ঘটে একটু আগেই। তার ব্যতিক্রম হয়নি দিনাজপুরেও। সারাদিনে তেমন একটা বোঝা না গেলেও সন্ধ্যা বাড়ার সাথে সাথে শীত বাড়তে শুরু করে।

গত কয়েক দিনে শীতের তীব্রতা অনেকটা কমেছে এবং বেড়েছে তাপমাত্রা। তবে আকাশ মাঝে মাঝেই মেঘাচ্ছন্ন থাকছে।

আবহাওয়া অফিসের তথ্য মতে, দিনাজপুরে আজ শনিবারের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১৬ দশমিক ৫ ডিগ্রী সেলসিয়াস। এসময় বাতাসে আদ্রতা ছিলো ৮৮ শতাংশ। গত দুই দিন আগে তাপমাত্রা ছিলো ১৪ দশমিক ৫ ডিগ্রী সেলসিয়াস।

আবহাওয়া অফিস আরও জানায়, তাপমাত্রা কিছুটা বাড়লেও চলতি সপ্তাহের শেষে শীতের তীব্রতা আরো বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। আগামী ৬ ডিসেম্বর এ জেলায় কিছুটা বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। আজ শনিবার দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা পঞ্চগড়ের তেতুলিয়ায় রেকর্ড করা হয়েছে ১৪ দশমিক ২ ডিগ্রী সেলসিয়াস।

আরও পড়ুন


চাঁপাইনবাবগঞ্জে জমিজমা নিয়ে বিরোধ, একজনকে কুপিয়ে হত্যা

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

চাঁপাইনবাবগঞ্জে জমিজমা নিয়ে বিরোধ, একজনকে কুপিয়ে হত্যা

রফিকুল আলম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ

চাঁপাইনবাবগঞ্জে জমিজমা নিয়ে বিরোধ, একজনকে কুপিয়ে হত্যা

চাঁপাইনবাবগঞ্জের শাহজাহানপুরে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হাসুয়ার কোপে বদিউজ্জামান (৫০) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। নিহত বদিউজ্জামান সদর উপজেলার শাহজাহানপুর ইউনিয়নের শেখালীপুর রাবনপাড়া গ্রামের মৃত আইনুদ্দিনের ছেলে।

শনিবার (৪ ডিসেম্বর) সকাল ৮টার দিকে শাহজাহানপুর ইউনিয়নের শেখালিপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, শাহজাহানপুর ইউনিয়নের শেখালীপুর রাবনপাড়া গ্রামের মৃত আইনুদ্দিনের ছেলে বদিউজ্জামানের সাথে তার চাচাতো ভাই একই গ্রামের মজিবুর রহমান ও মোকলেছুর রহমানের জমিজমা নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল।

এই বিরোধের জের ধরে আজ শনিবার সকাল ৮টার দিকে বদিউজ্জামান রাবনপাড়া এলাকা দিয়ে যাবার সময় মজিবুর রহমান ও মোকলেছুর রহমানসহ ৭-৮ জন মিলে তার পথরোথ করে।

এসময় ধারালো হাসুয়া দিয়ে বদিউজ্জামানের মাথায় কোপ দিয়ে গুরুতর জখম করে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে জেলা হাসপাতালে নিয়ে আসার সময় পথিমধ্যে তিনি মারা যান।

খবর পেয়ে সদর মডেল থানার ওসি (অপারেশন) মোঃ মাহফুজুল হকের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল বেলা ১১টায় মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ মোজাফ্ফর হোসেন বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে এবং এ বিষয়ে থানায় হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

আরও পড়ুন


এবার রাজধানীতে লরি চাপায় প্রাণ গেল বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর