আজকের রাশিফল, কী আছে ভাগ্যে জেনে নিন

অনলাইন ডেস্ক

আজকের রাশিফল, কী আছে ভাগ্যে জেনে নিন

আজ মঙ্গলবার, ১২ অক্টোবর। বৈদিক জ্যোতিষে ১২টি রাশি- মেষ, বৃষ, মিথুন, কর্কট, সিংহ, কন্যা, তুলা, বৃশ্চিক, ধনু, মকর, কুম্ভ ও মীন-এর ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়। একই রকমভাবে ২৩টি নক্ষত্রেরও ভবিষ্যদ্বাণী করা হয়ে থাকে। ভাগ্যরেখা অনুযায়ী আপনার আজকের দিনটি কেমন কাটবে, দেখে নিন। 

মেষ: দীর্ঘদিনের দাম্পত্য ও পারিবারিক কলহ বিবাদের মীমাংসা হবে। হাতে থাকা প্রায় কাজই সহজে সম্পন্ন হবে। প্রেমীযুগলের প্রেম বিবাহের মাধ্যমে সমাজে স্বীকৃতি পাবে। সহকর্মী ও অংশীদাররা সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেবে।

বৃষ: একদিকে আয় উপার্জন কম অন্যদিকে খরচের লাগামহীন চাপ আপনাকে অতিশয় জীর্ণ করে তুলবে। বাড়ির ইলেকট্র্রনিক্স সামগ্রী বৈদ্যুতিক মিটার জলের কল আসবাবপত্র ও যানবাহন মেরামতে প্রচুর অর্থ ব্যয় হবে। মন ধর্মের প্রতি ঝুঁকবে।

মিথুন: কর্মের সুনাম যশ পদোন্নতির পথ সুগম করবে। ব্যবসা বাণিজ্যে লাগাতার উন্নতির পথ খুলবে। ভাইবোনদের কাছ থেকে ভরপুর সহযোগিতা পাবেন। বিবাহযোগরা বিবাহের পূর্ব প্রস্তুতি নিন। শত্রু ও বিরোধীপক্ষের সব পরিকল্পনা নস্যাৎ হবে।

কর্কট: হাত বাড়ালেই নিত্যনতুন সুযোগ এসে হাজির হবে। দীর্ঘদিনের হারানো ধন সম্পদ সম্পত্তি প্রাপ্তির পথ খুলবে। শ্রম মেধা প্রযুক্তি কৌশল ও অধ্যবসায়ের পূর্ণ ফল প্রাপ্ত হবেন। সপরিবারে কাছেপিঠে ভ্রমণ শুভ।

সিংহ: যে কাজে হাত দেবেন তাতেই কমবেশি সফলতা প্রাপ্ত হবেন। দুর্ভাগ্য প্রতিহত ও সৌভাগ্য হাতের মুঠোয় আসবে। গৃহবাড়িতে নতুন আসবাবপত্র বস্ত্রালঙ্কার ও ইলেকট্র্রনিক্স সামগ্রীর পসরা সাজবে। সন্তানের সাফল্যে গৌরবান্বিত হবেন।

কন্যা: পাওনা টাকা আদায় ও আটকে থাকা কাজ সচল হবে। বিদেশে অবস্থানরত স্বজনদের স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের পথ খুলবে। গৃহবাড়ি অতিথি সমাগমে মুখর হয়ে থাকবে। সম্ভাব্য ক্ষেত্রে পরিবারে ছোট্ট নতুন মুখের আগমন ঘটবে।

তুলা: টাকা-পয়সা হাতে আসার আগেই খরচের খাত তৈরি হয়ে যাবে। একদিকে আয় উপার্জন কম অন্যদিকে দূর থেকে আসা কোনো অপ্রিয় সংবাদ যেন মড়ার উপর খাঁড়ার ঘার সমান হবে। লটারি জুয়া রেস শেয়ার হাউজি এড়িয়ে চলুন।

বৃশ্চিক: কর্মপ্রত্যাশীদের কর্মপ্রাপ্তির বাসনা পূরণ হবে। নিত্যনতুন ব্যবসা বাণিজ্যের পরিকল্পনা আলোর মুখ দর্শন করবে। বিদেশ গমন ও স্বদেশ প্রত্যাবর্তনের পথ প্রশস্ত হবে। শত্রু ও বিরোধীপক্ষের পাতা ফাঁদে তারাই ঘায়েল হবে।

ধনু: চতুর্দিক থেকে তরতাজা উন্নতি করে চলবেন। নিত্যনতুন চমক সৃষ্টিকারী দিবস হিসেবে গণ্য হবে। হারানো বুকের ধন বুকে ফিরবে। প্রেম রোমান্স বিনোদন ভ্রমণ বিবাহ বিনিয়োগ বন্ধুত্ব শুভফল প্রদান করবে। হঠকারী সিদ্ধান্ত বর্জন করুন।

আরও পড়ুন:


যে ৩ বিভাগে বৃষ্টি হতে পারে

আবারও ফেরি চলাচল বন্ধ

রাজধানীর যেসব এলাকায় মার্কেট বন্ধ থাকবে আজ

কাতারের টিকিট নিশ্চিত করল জার্মানি


মকর: বিবাহযোগ্যদের বিবাহকার্য সুসম্পন্ন হবে। কর্মের সুনাম যশ পদোন্নতির পথ সুগম করবে। গৃহবাড়ি অতিথি সমাগমে মুখর হয়ে থাকবে। সম্ভাব্য ক্ষেত্রে পরিবারে ছোট্ট নতুন মুখের আগমন ঘটতে পারে। কোনো মাঙ্গলিক অনুষ্ঠানে গমন হবে।

কুম্ভ: শরীর স্বাস্থ্যের ব্যাপারে তীক্ষè নজর রাখতে হবে। গুপ্ত ও প্রকাশ্য শত্রুর আনাগোনা বাড়তে পারে। লম্বা দূরত্বের সফরে নিজে ড্রাইভ করা থেকে বিরত থাকুন। অত্যাবশ্যকীয় বিবাহে কোনো না কোনো বাধা এসে হাজির হবে।

মীন: কর্ম ও ব্যবসা বাণিজ্যে বড় কোনো অর্ডার হাতে আসতে পারে। পিতা-মাতার কাছ থেকে ভরপুর সহযোগিতা প্রাপ্ত হবেন। মামলা মোকদ্দমার রায় পক্ষে আসবে। শিক্ষার্থীরা নিত্যনতুন চমক দেখাতে সক্ষম হবেন। শত্রুরা পরাস্ত হবে।

news24bd.tv রিমু 

পরবর্তী খবর

চুল কতটা ছাঁটা উচিত?

অনলাইন ডেস্ক

চুল কতটা ছাঁটা উচিত?

কতদিন পর পর আর কতটুকু চুল ছাঁটতে হবে তা নির্ভর করে চুলের ধরন, ঘনত্ব ও আকারের ওপর। এছাড়াও শেষ কবে চুল কাটা হয়েছে সে বিষয়েও খেয়াল রাখা উচিত।

ছোট চুল ছাঁটার জন্য খুব বেশি সময় অপেক্ষা না করে আকার অনুযায়ী ছেঁটে নিলে তা ভালো থাকে।

মাঝারি মাপের চুলের ক্ষেত্রে ক্যাম্পোস এক বা দুই ইঞ্চি ছাঁটার পরামর্শ দেন। তবে অনেক আগে যদি শেষবার চুল কাটা হয়ে থাকে তাহলে তিন ইঞ্চি পরিমাণ চুল ছাঁটা উচিত।

আরও পড়ুন: পূজামণ্ডপের ঘটনাটি দুঃখজনক: বদিউল আলম মজুমদার

কেউ চুল লম্বা করতে চাইলে প্রতি মাসে আধা ইঞ্চি করে চুল ছাঁটার পরামর্শ দেন,  লস অ্যাঞ্জেলেস’য়ের চুল সজ্জাকারী ম্যাটিল্ডি ক্যাম্পোস।

ওয়েলঅ্যান্ডগুড ডটকম’য়ে প্রকাশিত প্রতিবেদনে এ পরামর্শ দেন তিনি। 

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

আজকের রাশিফল: মিথুন, ভালো খবর পাবেন

অনলাইন ডেস্ক

আজকের রাশিফল: মিথুন, ভালো খবর পাবেন

ভাগ্যরেখা অনুযায়ী আপনার আজকের দিনটি কেমন কাটবে, জেনে নিন।  

মেষ: কোনো যোগাযোগে লাভবান হতে পারেন। পুরনো সমস্যার জট খুলবে। সঠিক পরিশ্রমের ভালো ফল লাভ। আর্থিক চাপ কমবে। গুরুত্বপূর্ণ কাজ ফেলে রাখবেন না। প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখুন।

বৃষ: নতুন পরিকল্পনায় অগ্রগতি হবে। কর্মক্ষেত্রে সম্মান বৃদ্ধি। আর্থিক অবস্থার উন্নতি। স্ববিরোধী কাজ থেকে দূরে থাকুন। প্রিয় মানুষের সঙ্গে আলোচনায় প্রশান্তি অনুভব করবেন। মন ভালো রাখুন।

মিথুন: দিনের শুরুতে ভালো খবর পাবেন। মানসিক শক্তি বাড়বে। ব্যবসায় উন্নতি হবে। নিজস্ব বুদ্ধিবলে কঠিন সমস্যার সমাধান করতে পারবেন। সঞ্চয়ের প্রচেষ্টায় অগ্রগতি হবে।

কর্কট: কোনো গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তের অগ্রগতি। অপ্রয়োজনীয় ব্যয় বাড়বে। অনিচ্ছাসত্ত্বেও কোনো অনুরোধ রক্ষা করতে হতে পারে। বিরূপ পারিপার্শ্বিকতায় বিষণ্ন থাকতে পারেন। ধর্মীয় কাজে শান্তি পাবেন।

সিংহ: কর্মক্ষেত্রে জটিলতা দূর হবে। আশা পূরণের সুযোগ আসবে। বন্ধুর পরামর্শ কাজে লাগবে। পাওনা অর্থ আদায়ে অগ্রগতি। অর্থাগমের নতুন পথ পেতে পারেন। বন্ধুসঙ্গ আনন্দ দেবে।

কন্যা: সামাজিক কর্মকাণ্ডে অনুকূল অবস্থা থাকবে। উন্নতির ক্ষেত্রে অন্যের সহায়তা পাবেন। ব্যবসা বা পেশায় আর্থিক উন্নতির যোগ। বিতর্ক থেকে নিজেকে সংযত রাখুন। প্রতিশ্রুতি রক্ষায় মনোযোগ দিন।

তুলা: শিক্ষার্থীদের পড়াশোনায় অগ্রগতি হবে। কল্যাণমূলক কাজের ভাবনায় উৎসাহী হবেন। আর্থিক অবস্থা ভালো যাবে। তবে পুরনো পাওনা আদায়ে বিলম্ব হবে। আপনার যেকোনো পরিকল্পনা পুনর্বিবেচনা প্রয়োজন।

বৃশ্চিক: পেশাগত কাজে সাফল্য। ব্যবসাক্ষেত্রে সমস্যা মিটবে। কাজকর্মে পরিশ্রম বাড়বে। প্রিয়জনের অসুস্থতায় চিন্তিত থাকবেন। দুর্ঘটনা থেকে সতর্ক থাকবেন। অন্যের দায়িত্ব নেবেন না। সুস্থ থাকুন।

আরও পড়ুন:


মুশফিক: আমি ক্যাচ ছাড়লে সমালোচনা হতো, লিটন তো সেরা

ইকবালকে নিয়ে পুলিশের অভিযান, যা পাওয়া গেছে!

আগামীকাল নুরের দলের আত্মপ্রকাশ

পাকিস্তানি সমর্থকদের ওপর ভারতীয় সমর্থকদের হামলা, আহত ২


ধনু: কর্মক্ষেত্রে সুনাম বজায় থাকবে। সব ধরনের অংশীদারি কাজকর্ম এখন সহজ হবে। ব্যবসায়ীদের আশানুরূপ লাভ না হলেও কোনো সমস্যার সমাধান হবে। ইতিবাচক মনোভাবে সুফল পাবেন।

মকর: নতুন কাজের অগ্রগতি হবে। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা পাবেন। বিরোধে জড়িয়ে পড়তে পারেন। অসতর্কতায় বিপদের আশঙ্কা। আর্থিক চাপ থাকবে। সুসময়ের অপেক্ষা করুন।

কুম্ভ: কর্মপ্রার্থীদের আকস্মিক কিছু পরিবর্তন ঘটতে পারে। অন্যের সন্তুষ্টির জন্য সাধ্যের বাইরে কিছু করতে পারেন। সাফল্য নির্ভর করবে আপনার দূরদর্শিতার ওপর। স্বাস্থ্যের প্রতি নজর দেবেন।

মীন: কোনো স্থাবর সম্পত্তির আলোচনায় অগ্রগতি। ভবিষ্যৎ ভাবনা বৃদ্ধি পাবে। পূর্বের কোনো কাজের সুফল এখন পাবেন। ব্যবসায় বাড়তি আয়ের সুযোগ। কৌশলী হলে লক্ষ্যে পৌঁছতে পারবেন।

news24bd.tv রিমু  

 

পরবর্তী খবর

পড়াশোনার সময় ঘুম আসা বন্ধে যা করতে পারেন

অনলাইন ডেস্ক


পড়াশোনার সময় ঘুম আসা বন্ধে যা করতে পারেন

পড়াশোনার সময় আমাদের অনেকেরই ঘুম চলে আসে। তবে কিছু কৌশল জানা থাকলে খুব সহজেই এই সমস্যা থেকে পরিত্রান পেতে পারেন। ঘুম আসা বন্ধ করার কয়েকটি ব্যবহারিক পদ্ধতি আলোচনা করা হলো।

পর্যাপ্ত পানি পান করুন

পড়াশোনার সময় আপনি ঘুমিয়ে পড়ার আরেকটি কারণ হলো আপনি পর্যাপ্ত পানি পান করছেন না। তবে একটি গবেষণার হিসাবে, ডিহাইড্রেশন আক্ষরিকভাবে আপনার মস্তিষ্ককে সঙ্কুচিত করতে পারে! পড়ার সময় পর্যাপ্ত পানি না পান করলে আপনি মনোযোগ হারাতে পারেন। এটি মোকাবেলা করতে, আপনার পড়ার টেবিলে সবসময় ঠাণ্ডা পানির একটি বোতল রাখুন এবং সারা দিন একটু একটু করে চুমুক দিন। আপনার প্রতিদিন ২ লিটার পানি পান করা উচিৎ। আপনি একটি ২ লিটারের বোতলে পানি ভরে রাখতে পারেন এবং ঘুমানোর আগে সেটি শেষ করে ঘুমাতে পারেন।

টেবিল থেকে উঠুন এবং কিছুক্ষণ ঘোরাফেরা করুন:

পাওয়ার ন্যাপ নেয়া ছাড়াও, পড়াশোনার সময় আপনি যদি ঘুম অনুভব করেন তাহলে কিছুক্ষণের জন্য হাটাহাটি করতে পারেন। বা আপনার প্রিয় গান ছেড়ে নাচতে পারেন। বাইরে থেকে ১০ মিনিটের জন্য ঘুরে আসতে পারেন। এমনকি আপনার ঘরে হেঁটে হেঁটে বইটি নিয়ে পড়াশোনা করতে পারেন।

একটানা অনেকক্ষণ পড়া যাবে না:

অনেকেই একটানা ৫-৬ ঘন্টা পড়ার কথা বলে তবে মনোযোগ না হারিয়ে এটি করা প্রায় অসম্ভব। একটানা সর্বোচ্চ ২ ঘন্টার বেশি পড়া উচিৎ নয়। প্রতি ২ঘন্টা পরপর বা ২৫ মিনিট পড়ার পরে ৫ মিনিটের বিরতি নিতে হবে। এই ৫ মিনিটে আপনি শ্বাস প্রশ্বাসের ব্যাম করতে পরেন। বা প্রতি ২ ঘন্টা পরে আপনি প্রায় ২০ মিনিটের দীর্ঘ বিরতিও নিতে পারেন।

জোরে জোরে পড়ুন এবং বেশিবেশি লিখুন:

জোরে জোরে পড়া আপনাকে মনে মনে পড়ার চেয়ে আরো বেশি ব্যস্ত রাখতে পারে যা আপনাকে পড়াশোনার সময় না ঘুমাতে সাহায্য করবে। এছাড়া একটি রাফ খাতা আপনার পাশে রাখুন এতে আপনি যা পড়ছেন তার গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো লিখে রাখতে পারেন। আপনার নোটগুলি মুখস্থ করার জন্য এটিই সেরা উপায় নয়, এটি আপনার শরীরকে ব্যস্ত রাখবে এবং আপনাকে জাগিয়ে রাখবে।

আপনার পড়ার বিষয়গুলো ঘুরিয়ে ফিরিয়ে পড়ুন:

কখনো কখনো একই বিষয় খুব দীর্ঘ সময় পড়লে আপনার ঘুম আসতে পারে। পড়তে পড়তে ঘুম আসলে অন্য কোনো বিষয় পড়ুন বা  আপনার পছন্দের বিষয়ও পড়তে পারেন। এছাড়া, গভীর রাতে জটিল বিষয়গুলি না পড়াই ভালো।

পড়ার সময় আরাম করা যাবে না:

পড়াশোনার সময় ঘুমিয়ে যাওয়ার একটা বড় কারণ খুব স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করা। এক্ষেত্রে আপনার বিছানায় পড়াশোনা না করা উচিত। আপনার পড়ার যায়গা এবং ঘুমানোর যায়গা আলাদা রাখুন। এর ফলে আপনার মস্তিষ্ক দুটির মধ্যে পার্থক্য করতে পারবে।

ঘন ঘন মুখ ধোয়া:

জেগে থাকার সর্বাধিক ব্যবহারিক একটি উপায় হলো যখনই ঘুম পাচ্ছে তখনই মুখ ধুয়ে নেয়া। এটি অন্যতম পরীক্ষিত পদ্ধতি এবং এটি সম্ভবত অভিভাবকরা সবচেয়ে বেশি পরামর্শ দিয়ে থাকেন। যখনই আপনার চোখ ভারী লাগবে ঠাণ্ডা পানিতে মুখ ধুয়ে ফেলুন। এছাড়া আপনি  দাঁত ব্রাশও করতে পারেন। 

নিজের সঙ্গে কথা বলুন:

নিজের সঙ্গে কথা বলা পাগলামির মত শোনাতে পারে তবে এটি সত্যিই কার্যকর। নিজেকে জাগ্রত রাখতে পড়াশোনার সময় নিজের সঙ্গে কথা বলুন। নিচের বাক্যগুলো আপনার আত্মবিশ্বাসকে বাড়িয়ে তুলতে পারে এবং আপনাকে আরো বেশি কেন্দ্রীভূত করতে পারে –

“আমি আগামীকাল পরীক্ষায় টেক্কা দিতে যাচ্ছি!”, “আমি খুব ভালো প্রস্তুত, আমি নিশ্চিতভাবে ৯০-আপ পাব!”

আপনার চোখকে বিশ্রাম দিন:

আমরা এখন কেবল বই এবং নোটবুক থেকে পড়াশোনা করি না। এটি ডিজিটাল যুগ এবং অনেক শিক্ষার্থী অনলাইনে বক্তৃতার দিকে নজর রাখছে বা নোট পড়তে কম্পিউটারের স্ক্রিনে ঘন্টার পর ঘন্টা কাটাচ্ছে। বিশেষজ্ঞরা প্রতি ২০ মিনিটে কম্পিউটারের পর্দা থেকে দূরে সরে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

চুইংগাম খেতে পারেন:

চুইংগাম আপনার দাঁতগুলির জন্য খুব খারাপ তবে আপনার পড়ার সময় সঙ্গে একটি প্যাকেট রাখতে পারেন। এবং  ঘুম আসলে এটি খেতে পারেন। আপনার মুখ যদি অবিচ্ছিন্নভাবে কাজ করে তবে পড়ায় মনোযোগ হারানোর ঝুঁকি কম রয়েছে।

আরও পড়ুন:স্বামীকে কুপিয়ে সেই দা নিয়ে ঘরের দরজায় বসেছিলেন স্ত্রী

ক্যাফিনেটেড পানীয় পান করতে পারেন:

কফি বা অন্যান্য পানীয় পান করতে পারেন। এটি আপনার শক্তিকে বাড়িয়ে তুলতে পারে তবে মাথায় রাখা উচিত যে এ এনার্জি অল্পের জন্য স্থায়ী হতে পারে। তাছাড়া খুব বেশি ক্যাফিন আপনার পক্ষে খারাপ। আপনার একদিনে ৫০০-৬০০ মিলিগ্রামের বেশি ক্যাফিন পান করা উচিত নয়।

অন্যদের সঙ্গে অধ্যয়ণ:

যদি আপনি একা অধ্যয়ন না করেন তবে সম্ভাবনা রয়েছে যে আপনার ঘুম কম পাবে। একদল বন্ধুবান্ধব নিয়ে পড়াশোনা বিভ্রান্তিকর হতে পারে তবে পরীক্ষার জন্য এটি আরো ভালভাবে আপনাকে সহায়তা করতে পারে। আপনার বন্ধুরা আপনাকে প্রস্তুতি নিয়ে কুইজ করতে পারে বা এমন ধারণাটি বুঝতে সহায়তা করতে পারে যা আপনার কাছে এখনো পরিষ্কার নয়।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর

আজকের রাশিফল: কেমন কাটবে সারাদিন জেনে নিন

অনলাইন ডেস্ক

আজকের রাশিফল: কেমন কাটবে সারাদিন জেনে নিন

আজ রবিবার, ২৪ অক্টোবর। ভাগ্যরেখা অনুযায়ী আপনার আজকের দিনটি কেমন কাটবে, জেনে নিন।  

মেষ: ব্যাবসায়িক ও আর্থিক ক্ষেত্রে শুভ যোগ। আর্থিক সুবিধা পেতে পারেন। কোনো লাভজনক কাজ হাতে আসবে। অমীমাংসিত সমস্যা সমাধানের পথ পাবেন। সুযোগ হাতছাড়া করবেন না।

বৃষ: কাজে উত্সাহ বাড়বে। অর্থপ্রাপ্তির সম্ভাবনা। বকেয়া টাকা আদায় হতে পারে। পেশাগত দিক ভালো যাবে। ব্যবসায়ীরা ভালো আয় করতে পারবেন। অসমাপ্ত কাজ সেরে ফেলা উচিত।

মিথুন: আপনার উদ্দীপনা ও দৃঢ়তায় অনেক কাজ সমাধান হবে। কোনো সুসংবাদ পেতে পারেন। কাজকর্মে উন্নতির যোগ প্রবল। আপনার কাজে অন্যদের উত্সাহিত করতে পারবেন। দৃঢ় পদক্ষেপ নিন।

কর্কট: আর্থিক চাপ থাকলেও প্রয়োজনীয় অর্থ হাতে আসবে। পাওনা আদায়ে বিলম্ব। ব্যয় চাপ থাকবে। প্রত্যাশিত কাজে বাধা আসবে। সুদূরপ্রসারী লক্ষ্য নিয়ে এগোতে পারেন। শরীরের যত্ন নিন।

সিংহ: কোনো আশা পূরণ হতে পারে। আয়ের পরিধি বাড়বে। আর্থিক সাহায্য পাওয়ার আশ্বাস। কাজে বন্ধুর সহযোগিতা পাবেন। গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে কাউকে প্রতিশ্রুতি দেবেন না। ভালো থাকবেন।

কন্যা: কোনো পরিকল্পনার অগ্রগতি হবে। ব্যাবসায়িক কাজে আশানুরূপ অগ্রগতি। ইতিবাচক পরিবর্তনে আশাবাদী হবেন। আগের কোনো যোগাযোগে বর্তমানে সুফল পাবেন। কল্যাণকর কাজে যুক্ত থাকুন।

তুলা: বিদেশ থেকে কোনো সুখবর পেতে পারেন। নতুন কোনো পরিকল্পনা মাথায় আসবে। শরীর ভালো থাকলেও যত্নের প্রয়োজন। ব্যবসায় জটিলতা কাটবে। সঠিক প্রচেষ্টায় সুফল পাবেন।

বৃশ্চিক: পুরনো কোনো সমস্যা সমাধানে অগ্রগতি। অতীতের কোনো ঘটনা মনের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে পারে। উপস্থিত বুদ্ধির কারণে সংকট মোকাবেলা করতে পারবেন। বিতর্ক এড়িয়ে চলুন।

ধনু: অবিবাহিতদের বিয়ের আলোচনায় অগ্রগতি। মানসিক চাপ কিছু কমবে। ভবিষ্যত্ পরিকল্পনায় অন্যের সহযোগিতা পাবেন। ভালো কাজে স্বীকৃতি। আপনার চারপাশের লোকদের সঙ্গে সহযোগিতা বাড়ান।

আরও পড়ুন


অতিরিক্ত আপেল খেলে হতে পারে যেসব বিপদ!

যে কারণে মহিব উল্লাহসহ ৭ খুন সংঘটিত হয়!

ঘুরতে আসা তরুণীকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ চেষ্টা, মূল হোতা গ্রেপ্তার

পূজামণ্ডপে পবিত্র কোরআন রাখার ঘটনায় ইকবালের সঙ্গে যে ৩ জনের যোগসূত্র


মকর: কর্মস্থলে কিছু পরিবর্তন ঘটতে পারে। অর্থপ্রাপ্তিতে বিলম্ব হবে। ব্যবসায় বাড়তি চাপ আসবে। আইনসংক্রান্ত ঝামেলা থেকে দূরে থাকবেন। সময় ও সুযোগের সুষ্ঠু ব্যবহার করুন। ভালো থাকুন।

কুম্ভ: কাজের স্বীকৃতি পাবেন। কর্মক্ষেত্রে আশার সঞ্চার হবে। ব্যবসায় বাড়তি আয়ের সুযোগ আসবে। বন্ধুর সহযোগিতায় কাজের অগ্রগতি হবে। কোনো অযাচিত সুযোগে লাভবান হবেন।

মীন: কোনো স্থাবর সম্পত্তির আলোচনায় অগ্রগতি হবে। সন্তানের জন্য ভাবনা কমবে। পারিবারিক বিষয়ে আপনার আধিপত্য বজায় থাকবে। রোগ থেকে মুক্তি পেতে পারেন। ধর্মীয় কাজে আগ্রহ বাড়বে।

news24bd.tv রিমু    

পরবর্তী খবর

শীতে যেসব বিষয় খেয়াল রাখা জরুরি

অনলাইন ডেস্ক

শীতে যেসব বিষয় খেয়াল রাখা জরুরি

শীত আসার আগেই শীত মোকাবিলার প্রস্তুতি নিতে হয়। কারণ শীতের দিনগুলো বছরের অন্যান্য সময়ের মতো নয়। এক নজরে দেখে নিন শীতের আগে কোন প্রস্তুতিগুলো নিয়ে রাখবেন-

প্রসাধনী সামগ্রী কিনে রাখুন:

শীত আসার আগেই তার প্রভাব পড়তে শুরু করে আমাদের ত্বকে। চামড়ার উপরিভাগ ফেটে যায়, ফাটে ঠোঁটও। এসময় ত্বকে রুক্ষভাব দেখা দেয়। তাই ত্বক ভালো রাখতে শীতের আগে বিভিন্ন প্রসাধনী সামগ্রী কিনে রাখা দরকার। ময়েশ্চারাইজিং ক্রিম, স্নো, পেট্রোলিয়াম জেলি, অলিভ অয়েল, বডি লোশন, লিপজেল, গ্লিসারিন, গোলাপজল ইত্যাদি কিনে হাতের কাছে রাখুন।

অসুখ থাকুক দূরে:

শীত এলে তার হাত ধরে আসে নানা অসুখ। এসময় ঠান্ডাজনিত জ্বর, নাক দিয়ে পানি পড়া, সর্দি-কাশি দেখা দিতে পারে। এসব অসুখ থেকে দূরে থাকার জন্য নিতে হবে প্রস্তুতি। এসম তরল ও গরম জাতীয় খাবার বেশি খাবেন। প্রতিদিন চা, হালকা গরম পানি, আদা, লেবু, মধু ইত্যাদি রাখবেন খাবারের তালিকায়। প্রতিদিন সকালে খালি পেটে হালকা গরম পানির সঙ্গে এক চা চামচ মধু ও এককোয়া রসুন মিশিয়ে খেলেও উপকার পাবেন। এসময় ঠান্ডা পানিতে গোসল করলেও ঠান্ডাজনিত নানা অসুখ দেখা দিতে পারে। তাই গোসলের পানি হালকা গরম থাকাই ভালো।

আরও পড়ুন:আগারগাঁওয়ে উন্নয়ন কাজে ধীর গতি, দুর্ভোগ চরমে

ঘর পরিষ্কার:

শীতের সময় ধুলোবালির পরিমাণ অনেকটা বেড়ে যায়। এসময় শুষ্ক আবহাওয়া এর বড় কারণ। এই ধুলোবালির কারণে বাড়িঘর অপরিষ্কার হতে সময় লাগে না। শুধু তাই নয়, ধুলোবালির মাধ্যমে জীবাণু ছড়িয়ে দেখা দিতে পারে অসুখও। তাই এসময় বাড়িঘর পরিষ্কার রাখাও সমান জরুরি। ধুলোবালি পরিষ্কারের জন্য ভ্যাকুয়াম ক্লিনার ব্যবহার করতে পারেন। জানালা ও দরজায় ভারী পর্দা লাগাতে পারেন তাতে ঘরে ধুলোবালি কম প্রবেশ করবে। বাড়ির মেঝে, আসবাব, কার্পেট সব নিয়মিত পরিষ্কার করুন।

শীতের পোশাক:

শীতের প্রস্তুতির একটি বড় অংশ হলো শীতের পোশাক পরিষ্কার করা। কারণ সারা বছর ব্যবহার না করার কারণে তাতে নানা ধরনের জীবাণু জন্ম নিতে পারে। তাই শীত শেষে গুছিয়ে রাখার সময় ধুয়ে পরিষ্কার করে রাখলেও শীতের শুরুতে আরেকবার ধুয়ে নিন। যেহেতু শীতের শুরু কদিন পরেই তাই এখনই তুলে রাখা শীতের পোশাক ধুয়ে পরিষ্কার করে রাখুন। প্রয়োজন হলে শীতের পোশাক যেমন সোয়েটার, কার্ডিগান, জ্যাকেট, স্যুট, প্যান্ট, মাফলার, মোজা, কানটুপি ইত্যাদি কিনে রাখুন।

news24bd.tv নাজিম

পরবর্তী খবর