মানবদেহে প্রতিস্থাপিত হল শূকরের কিডনী
মানবদেহে প্রতিস্থাপিত হল শূকরের কিডনী

মানবদেহে প্রতিস্থাপিত হল শূকরের কিডনী

অনলাইন ডেস্ক

পরীক্ষামূলক ভাবে ও অল্প সময়ের জন্য মানবদেহে বসানো হয়েছিল একটি শূকরের কিডনী। এ পরীক্ষায় সাফল্য মিলেছে বলে জানিয়েছেন নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটির বিজ্ঞানীরা। খবর রয়টার্সের।

বেশ আগে থেকেই চলছিল এই গবেষণা।

তবে শূকরের কোষে উপস্থিত একটি শর্করা জাতীয় পদার্থে বারবার পরীক্ষায় ব্যাঘাত ঘটছিল। পরে জিন-এডিট করে কোষ থেকে ওই শর্করাটিকে বাদ দেওয়া হয়। এরপর এটিকে মানবদেহে বসানো হয়।

পরীক্ষার সময়ে পরীক্ষকেরা শুয়োরের জেনেটিকালি ইঞ্জিনিয়ার্ড কিডনিটিকে গ্রাহকের (সদ্য মৃত) শরীরের একজোড়া রক্তনালির সঙ্গে জুড়ে দেন। দুইদিন পর কোন সমস্যা না হওয়ায় এটিকে সফল পরীক্ষা হিসেবে ধরা হয়।  

গবেষক দলের প্রধান নিউ ইয়র্ক ইউনিভার্সিটির রবার্ট মন্টেগোমারি বলেন, ‘‘একেবারে স্বাভাবিক কাজ করছে কিডনি। ’’ 

আরও পড়ুন:

পূজামণ্ডপে কোরআন রাখা কে এই ইকবাল?

আগামী মাসেই ফেসবুকের প্রতিদ্বন্দ্বী নিয়ে আসছেন ট্রাম্প

পূজামণ্ডপে কোরআন শরিফ রেখে গদা নিয়ে যায় ইকবাল

সুপার টুয়েলভে যেতে পাপুয়া নিউগিনি ম্যাচে মাহমুদউল্লাহর চাওয়া!


ইউনিভার্সিটি অব মিনেসোটা মেডিক্যাল স্কুল-এর গবেষক অ্যান্ড্রু অ্যাডামস বলেন, ‘‘এটা একটি সাফল্য। এ থেকে স্পষ্ট যে আমরা ঠিক পথেই হাঁটছি। ’’

প্রাণিদেহ থেকে মানবদেহে সফল অঙ্গ প্রতিস্থাপনকে বলে ‘জ়েনোট্রান্সপ্লান্টেশন’। সপ্তদশ শতকেও প্রাণীর রক্ত মানবদেহে ঢোকানোর চেষ্টা করেছিলেন বিজ্ঞানীরা। বিশ শতকে বেবুনের অঙ্গ মানুবদেহে বসানোর চেষ্টা হয়েছিল।

news24bd.tv/ নকিব

;