যুক্তরাষ্ট্র ও ফ্রান্সসহ ১০ দেশের রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কারের নির্দেশ এরদোয়ানের
যুক্তরাষ্ট্র ও ফ্রান্সসহ ১০ দেশের রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কারের নির্দেশ এরদোয়ানের

যুক্তরাষ্ট্র ও ফ্রান্সসহ ১০ দেশের রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কারের নির্দেশ এরদোয়ানের

অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্র ও ফ্রান্সসহ ১০ দেশের রাষ্ট্রদূতকে বহিষ্কারের নির্দেশ দিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইপ এরদোয়ান। দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে তিনি এই নির্দেশ দেন।  

এরদোয়ান বলেছেন, পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে আমি প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিয়েছি এবং কি করা হবে বলেছি। এই ১০ রাষ্ট্রদূতকে খুব শিগগিরই ‘পারসোনা নন গ্রাটা’ (কূটনীতিতে ব্যবহৃত একটি শব্দ, যা অনেক কূটনৈতিক পদ মর্যাদা তুলে নেওয়ার মতো।

বহিষ্কারের আগে প্রথম পদক্ষেপ) ঘোষিত হয়েছে। আপনি অবিলম্বে ব্যবস্থা নিন। খবর বিবিসি।

এই রাষ্ট্রদূতরা তুরস্কের কারাবন্দি অ্যাক্টিভিস্ট ওসমান কাভালাকে মুক্তির আহ্বান জানিয়েছিলেন। তার প্রতিক্রিয়ায় এই নির্দেশ দেন এরদোয়ান।   আন্দোলন ও অভ্যুত্থানের অভিযোগে কাভালা চার বছরেরও বেশি সময় ধরে কারাবন্দি আছেন। যদিও তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়নি।  

চলতি সপ্তাহে কাভালার ব্যাপারে যৌথভাবে ওই আহ্বান জানায় যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা, ফ্রান্স, ফিনল্যান্ড, ডেনমার্ক, জার্মানি, নেদারল্যান্ডস, নিউজিল্যান্ড, নরওয়ে এবং সুইডেনের রাষ্ট্রদূতরা।

আরও পড়ুন : অভিষেক অনুষ্ঠানে গভর্নরকে ক্ষুব্ধ যুবকের থাপ্পড়! (ভিডিও)

কাভালা ২০১৭ সাল থেকে দোষী সাব্যস্ত না হয়ে কারাগারে আছেন। তিনি ২০১৩ সালে সরকারবিরোধী বিক্ষোভ এবং ২০১৬ সালে একটি ব্যর্থ সামরিক অভ্যুত্থানের সাথে যুক্ত ছিলেন বলে অভিযোগ। অভ্যুত্থানপ্রচেষ্টা থেকে বেঁচে যাওয়ার পর তিনি এরদোয়ানমুক্ত তুরস্কের প্রতীক হয়ে উঠেছেন।

news24bd.tv/আলী

;