নুরের দলের ২১ দফা

অনলাইন ডেস্ক

নুরের দলের ২১ দফা

‘বাংলাদেশ গণঅধিকার পরিষদ’ নামে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) সাবেক ভিপি নুরুল হক নতুন যে রাজনৈতিক দলের আত্মপ্রকাশ করেছে তার ২১ দফা ও ৪ মূলনীতি।

মঙ্গলবার (২৬ অক্টোবর) পল্টনের জামান টাওয়ারে এক অনুষ্ঠানে এই দল ঘোষণা করেন ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর।

চার মূলনীতি হল- গণতন্ত্র, ন্যায়বিচার, অধিকার ও জাতীয় স্বার্থ।

আর প্রথম দফা কর্মসূচি - গণতন্ত্র ও ভোটাধিকার পুনরুদ্ধারে সবার কাছে গ্রহণযোগ্য একটি নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার গঠনের মাধ্যমে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করা। সব স্তরে সরাসরি নির্বাচিত প্রতিনিধিদের মাধ্যমে রাষ্ট্র পরিচালনায় রাজনৈতিক, প্রশাসনিক ও প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামো নির্মাণ করা। সুনির্দিষ্ট আইনের আলোকে স্বাধীন নির্বাচন কমিশন গঠন ও সব সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানের পূর্ণ স্বাধীনতা নিশ্চিত করা।

দ্বিতীয় দফা কর্মসূচি-ন্যায়বিচার ও সুশাসন। বিচার বিভাগের কার্যকর স্বাধীনতা, পর্যাপ্ত জনবল নিয়োগের মাধ্যমে বিচারের দীর্ঘসূত্রিতা হ্রাস ও ন্যায়বিচার নিশ্চিত করা। সর্বস্তরে ই-গভর্নেন্স প্রবর্তন, নাগরিক সেবা প্রাপ্তিতে অসহযোগিতা, অনিয়ম ও হয়রানির অভিযোগ নিষ্পত্তির জন্য জনসমাজের প্রতিনিধিদের নেতৃত্বে প্রশাসনিক ট্রাইবুনাল গঠন করা।

তৃতীয় দফা- নারী অধিকার। সব বাধা দূর করে নারী প্রশ্নে সমতা প্রতিষ্ঠাকে অগ্রগণ্য লক্ষ্য ঘোষণা করে তা অর্জন করতে হবে। নারীর প্রতি সব ধরনের বৈষম্যের বিলোপ সাধন করা। সংসদ, সিটি করপোরেশন ও স্থানীয় সরকার নির্বাচনে ন্যূনতম ৩৫ শতাংশ আসন নারীদের জন্য নির্দিষ্ট করা।

চতুর্থ দফা- দেশে স্বাধীন বিকাশ অনুকূল, মর্যাদাপূর্ণ পরিস্থিতি ও ভীতিহীন পরিবেশ নিশ্চিত করা হবে। যাতে বিশাল সংখ্যাগুরু জনগোষ্ঠীর শাসনেও কেউ অস্বস্তি বোধ না করেন।

পঞ্চম দফা- শাসন ব্যবস্থায় ক্ষমতার ভারসাম্য, জবাবদিহিমূলক সরকার ও গণপ্রতিনিধিত্বশীল কার্যকর সংসদ প্রতিষ্ঠায় গঠনতান্ত্রিক সংস্কার সম্পন্ন করা। রাষ্ট্রপতি এবং প্রধানমন্ত্রীর মধ্যে ক্ষমতার ভারসাম্য আনয়ন, সংবিধানের ৭০ অনুচ্ছেদের সংশোধন করা। রাষ্ট্রপতি কিংবা সরকার প্রধান একই সঙ্গে দলীয় প্রধান হতে পারবেন না; কোনো ব্যক্তি দুই মেয়াদের বেশি (দশ বছর) সরকার প্রধান কিংবা পাঁচ মেয়াদের অধিক (দশ বছর) দলীয় প্রধান বা অন্য কোন পদ বা একাধিক পদে মিলিত ভাবে দায়িত্ব পালন করতে পারবেন না।

ষষ্ঠ দফা- স্বাধীনভাবে কাজ করতে সক্ষম শক্তিশালী দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) গঠন, দুর্নীতি প্রতিরোধকে রাজনৈতিক অগ্রাধিকার দেওয়া এবং দুর্নীতিবাজদের সামাজিকভাবে বর্জনের সাংস্কৃতিক প্রতিরোধ গড়ে তোলা।

সপ্তম দফা- গণমাধ্যম ও বাকস্বাধীনতা সম্পর্কে বলা হয়েছে- বাক, ব্যক্তি, চিন্তা ও মতামত প্রকাশের স্বাধীনতা, মুক্ত সাংবাদিকতার সুরক্ষায় ডিজিট্যাল নিরাপত্তা আইন, অফিশিয়াল সিক্রেসি অ্যাক্টের মতো সব দমন ও নিপীড়নমূলক গণবিরোধী আইন বাতিল করা।

অষ্টম দফা- বাংলাদেশের জনগণের ভোটাধিকার ও মৌলিক মানবাধিকারের প্রতি নিঃশর্ত সমর্থন প্রদানকারী, দুর্নীতি ও ঋণের ফাঁদে জড়াবে না তেমন অর্থনৈতিক সহযোহিতাকারী, সামরিক জোটভুক্ত করতে চাপ দেবে না তেমন রাষ্ট্র, সমতা ও বহুমাত্রিক বহুদেশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতার উদার নীতিতে সৎভাবে বিশ্বাসীদের সঙ্গে চলার বন্ধুত্বাভিমুখী পররাষ্ট্রনীতি অনুসরণ করার কথা বলা হয়েছে।

আরও পড়ুন:


পাগলীর জন্ম নেওয়া সন্তানের পিতা এমপি বদি

টস জিতে ফিল্ডিংয়ে পাকিস্তান

শোয়েব মালিককে ‘দুলাভাই’ ‘দুলাভাই’ বলে ডাকল ভারতীয় দর্শকরা (ভিডিও)


নবম দফা- প্রতিরক্ষা নীতি নিয়ে বলা হয়েছে-নাগরিক ও মৌলিক অধিকারহীন স্বাধীনতা এবং জনগণের ভরসা হারানো সার্বভৌমত্বকে আপন মহিমায় পুনঃপ্রতিষ্ঠার জন্য স্বদেশপন্থী দৃঢ় এক প্রতিরক্ষা নীতি প্রণয়ন করে, তা কঠোরভাবে পালন করা।

দশম দফা- কৃষির আধুনিকায়ন, একাদশ দফাতে শিল্প বিকাশ, দ্বাদশ দফাতে আর্থিক খাত ও উন্নয়ন প্রশাসন, ত্রয়োদশ দফায় শ্রম অধিকার, চতুর্দশ দফায় জনশক্তি রপ্তানি সম্পর্কে বলা হয়েছে।

পঞ্চদশ দফা- দক্ষ মানবসম্পদ তৈরিতে চতুর্থ শিল্পবিপ্লবের উপযোগী, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিনির্ভর কর্মমুখী শিক্ষানীতি প্রণয়ন করা। এ লক্ষ্যে মানসম্পন্ন কারিগরি শিক্ষা প্রসারে ব্যাপক উদ্যোগ নেওয়া এবং তা সম্পূর্ণ অবৈতনিক করে দেওয়া।

ষোড়শ দফা- সামাজিক নিরাপত্তা, ১৭তম দফায় পরিবহন ও যাতায়াত, ১৮তম দফায় জনস্বাস্থ্য সেবা, ১৯তম দফায় দখল ও দূষণ প্রতিরোধ, ২০তম দফায় খাদ্য ও পুষ্টি এবং সর্বশেষ ২১তম দফায় জ্বালানি, খনিজ ও প্রাকৃতিক সম্পদের ব্যবহার নিয়ে বলা হয়েছে।

news24bd.tv/তৌহিদ

পরবর্তী খবর

আইন আদালতের তোয়াক্কা করে না বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

নিজস্ব প্রতিবেদক

আইন আদালতের তোয়াক্কা করে না বিএনপি: ওবায়দুল কাদের

ফাইল ছবি

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আইন আদালতের প্রতি আস্থা নেই বলেই বিএনপি নেতারা বেগম জিয়ার বিদেশে যাওয়ার বিষয়ে আইন কোন বাধা নয়, বাধা হচ্ছে সরকার বলে বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছে। প্রকৃতপক্ষে বিএনপি নেতাদের এমন বক্তব্যে প্রমাণিত হয়েছে, তারা দেশের আইন আদালতের কোন তোয়াক্কা করে না।

বৃহস্পতিবার (২ ডিসেম্বর) সকালে মন্ত্রী তাঁর সরকারি বাসভবনে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে বিএনপি নেতাদের বিভিন্ন বক্তব্যের জবাবে এসব কথা বলেন।

বেগম জিয়ার বিদেশে চিকিৎসার ক্ষেত্রে আইন নয়, এই অবৈধ সরকার বাধা,- বিএনপি মহাসচিবের এমন বক্তব্যের জবাবে ওবায়দুল কাদের বিএনপি মহাসচিবের কাছে প্রশ্ন রেখে বলেন, সরকার যদি অবৈধই হয় তাহলে এই অবৈধ সরকারের কাছে দাবী করছেন কেন?

তিনি আরও বলেন, আর এই সরকার অবৈধই বা কি করে হয়? সংসদেতো আপনাদেরও বৈধভাবে প্রতিনিধিত্ব রয়েছে। 

হাফ ভাড়া নিয়ে সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, ঢাকা সিটিতে বেশকিছু পরিবহনের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের জন্য হাফ ভাড়ার যে সিদ্ধান্ত, তা বাস্তবায়ন না করার অভিযোগ রয়েছে। শিক্ষার্থীদের প্রতি সংবেদনশীল হয়ে হাফ ভাড়ার সিদ্ধান্তটি বাস্তবায়ন করার জন্য পরিবহন মালিক শ্রমিকদের আবারও অনুরোধ করেন তিনি।

মন্ত্রী, পরিবহন মালিক শ্রমিকদের প্রতি প্রশ্ন রেখে বলেন, কথা দিয়ে কথা রাখুন। আপনাদের সিদ্ধান্ত আপনারাই কেন লঙ্ঘন করছেন?

আরও পড়ুন


নগরকান্দায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাস খাদে, চালক নিহত

news24bd.tv এসএম

পরবর্তী খবর

বিভিন্ন জায়গায় সর্বনিম্ন ভোটে লজ্জার হার, বিব্রত আ. লীগ

অনলাইন ডেস্ক

বিভিন্ন জায়গায় সর্বনিম্ন ভোটে লজ্জার হার, বিব্রত আ. লীগ

তিন ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে গতকাল পর্যন্ত ৭৪ জনের প্রাণহানির খবর পাওয়া গেছে। আওয়ামী লীগের নির্বাচনী প্রতীক নৌকা নিয়ে মাত্র ৯৯ ভোট পেয়ে জামানত বাজেয়াপ্ত হওয়ার রেকর্ড সৃষ্টি হয়েছে।এমনকি সর্বনিম্ন ভোটে লজ্জার হারের ঘটনাও ঘটছে। এমন পরিস্থিতি খোদ দলের ভিতরেই প্রশ্ন উঠেছে, এসব প্রার্থীদের মনোনয়নের তালিকা পাঠায় কারা? কীভাবে তারা নৌকা পান। এসব নিয়ে চলছে আলোচনা সমালোচনা।

ক্ষমতাসীন দলের মনোনয়ন পেলেও তৃতীয় ধাপে ১৮১ ইউপিতে তৃতীয় অবস্থানেও থাকতে পারেনি নৌকার প্রার্থীরা। দলীয় বিদ্রোহী, বিএনপির ‘স্বতন্ত্র’ প্রার্থীদের কাছেও পরাজয় হচ্ছে। বারবার তাগাদা দিয়েও বিদ্রোহীদের দমন করা যাচ্ছে না। ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন নিয়ে অনেকটা নিয়ন্ত্রণহীন তৃণমূল।

তৃতীয় ধাপে ৪৭ দশমিক ০৬ শতাংশ ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থীর পরাজয় ঘটেছে। নির্বাচনী সংঘাতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যসহ নিহত হয়েছেন ১৩ জন।

আওয়ামী লীগ নেতারা বলছেন, ইউপি নির্বাচন একেবারেই প্রান্তিক পর্যায়ের। এখানে গোষ্ঠী, পরিবার ও পেশিশক্তি ব্যাপার হয়ে দাঁড়ায়। এবাড়ি-ওবাড়ি দ্বন্দ্ব থাকে। ইউপি নির্বাচন এলে এসব দ্বন্দ্ব উসকে ওঠে। 

আওয়ামী লীগের নীতিনির্ধারণী পর্যায়ের একাধিক নেতা জানিয়েছেন, তৃণমূল থেকে যে তালিকা আমরা পাচ্ছি, সেটি কি আসলেই মাঠের চিত্র নাকি নেতা-এমপিদের পছন্দের প্রার্থী? মনোনয়ন যাদেরকে দেওয়া হচ্ছে সেখানে কি তৃণমূলের চাওয়ায় হচ্ছে, নাকি চাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে? সেগুলো এখন বিচার বিশ্লেষণের সময় এসেছে। কারণ আওয়ামী লীগ রাজনৈতিক দল হিসেবে দেউলিয়া হয়ে যায়নি যে ৯৯ ভোট পায়। একটি ইউনিয়নে আওয়ামী লীগসহ সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠনের দলীয় পদ-পদবি আছেন এমন নেতারাও ভোট দিলে হাজার ছাড়িয়ে যাবে।  উৎসবমুখর ভোট এখন দলের জন্য বিব্রতকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে।

নির্বাচন শুরু হলেই কেন্দ্র ও তৃণমূল থেকে বলা হয়, দলের সিদ্ধান্তের বাইরে গেলেই ব্যবস্থা। প্রথমে সাময়িক বহিষ্কার করা হলেও পরে স্বপদে বহাল করা হয়। এখানেই শেষ নয়, তাদের দলীয় পদ-পদবি দিয়ে পুরস্কৃত করা হয়। 

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের সভা কাল

অনলাইন ডেস্ক

আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ডের সভা কাল

আওয়ামী লীগের সংসদীয় ও স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের যৌথসভা আগামীকাল (২ ডিসেম্বর) বৃহস্পতিবার বিকাল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র সরকারি বাসভবন গণভবনে অনুষ্ঠিত হবে।

আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সভায় সভাপতিত্ব করবেন আওয়ামী লীগের সংসদীয় ও স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সভাপতি এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

আরও পড়ুন:

গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর

হাফ পাস শুধুমাত্র ঢাকায় কার্যকর হবে বললেন এনায়েত উল্লাহ

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: ৬ হামলাকারী শনাক্ত


দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সংশ্লিষ্ট সকলকে যথাসময়ে সভায় উপস্থিত থাকার জন্য আহ্বান জানিয়েছেন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

এক কেন্দ্রে নৌকা পেলো ৩ ভোট!

অনলাইন ডেস্ক

এক কেন্দ্রে নৌকা পেলো ৩ ভোট!

আওয়ামী লীগ দলীয় নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী একটি কেন্দ্রে ২ হাজার ৪৩৩ ভোটারের মধ্যে ভোট পেয়েছেন মাত্র ৩টি। ৩ ভোটের বিষয়ে বিভিন্ন মহলে চলছে মুখরোচক আলোচনা।সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ জনাকীর্ণ বিভিন্ন স্থানে আলোচনায় স্থান পেয়েছে নৌকা প্রতীকে মাত্র ৩ ভোট পাওয়ার বিষয়টি।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল সদর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে স্বল্প নোয়াগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে  নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী সেলিম খন্দকার মাত্র ৩ ভোট পান। 

জানা যায়, ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত তৃতীয় ধাপে সরাইল উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন পরিষদের মধ্যে সরাইল সদর ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে ৪ জন প্রার্থীর মধ্যে স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল জব্বার মোটরসাইকেল প্রতীকে ৯ হাজার ১২৬ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। একই ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ দলীয় নৌকা প্রতীকের প্রার্থী সেলিম খন্দকার ৫ হাজার ৭১৩ ভোট পেয়ে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছেন।

নির্বাচন পর্ববর্তী আলোচনায় বিভিন্ন কেন্দ্রে প্রার্থীদের প্রাপ্ত ভোটের কাউন্ট-ডাউনে আলোচনায় স্থান পেয়েছে নোয়াগাঁও সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে আওয়ামী লীগ দলীয় নৌকা প্রতীকের প্রার্থী সেলিম খন্দকার ৩ ভোট পাওয়ার বিষয়টি।

আরও পড়ুন:

গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর

হাফ পাস শুধুমাত্র ঢাকায় কার্যকর হবে বললেন এনায়েত উল্লাহ

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: ৬ হামলাকারী শনাক্ত


 

আওয়ামী লীগ দলীয় অনেক নেতা ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ২ হাজার ৪৩৩ জন ভোটারের ওই কেন্দ্রে ১ হাজার ৬০১ জন ভোটার ভোট প্রদান করলেও আওয়ামী লীগের দলীয় নৌকা প্রতীকে ভোট দিয়েছেন কেবল ৩ জন! নৌকা প্রতীকে এক কেন্দ্রে ৩ ভোট পাওয়ার এ বিষয়টি বিভিন্ন মহলে মুখরোচক আলোচনার সৃষ্টি করেছে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

খালেদার স্বাস্থ্য নিয়ে বিএনপি রাজনীতি করছে: বাহাউদ্দিন নাছিম

অনলাইন ডেস্ক

খালেদার স্বাস্থ্য নিয়ে বিএনপি রাজনীতি করছে: বাহাউদ্দিন নাছিম

খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে বিএনপি রাজনীতি করছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম। 

তিনি বলেন, তারা চাইলে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক আনতে পারে। কিন্তু চিকিৎসক না এনে খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে তারা রাজনীতি করতে চায়।

বুধবার বিকালে রাজধানীর পাতিরা ঈদগাহ মাঠ, ডুমনিতে ঢাকা মহানগর উত্তরের ৪৩নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের ইউনিটের সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আরও পড়ুন:

গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর

হাফ পাস শুধুমাত্র ঢাকায় কার্যকর হবে বললেন এনায়েত উল্লাহ

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: ৬ হামলাকারী শনাক্ত


 

বাহাউদ্দিন নাছিম বলেন, এখনো ষড়যন্ত্র চলছে। আমরা খালেদা জিয়ার সুস্থতা কামনা করি। বিএনপি ব্যস্ত তাকে নিয়ে রাজনীতিতে। তারা খালেদা জিয়ার কিছু হলে কে নেতৃত্ব দেবে- তা নিয়ে ভাগাভাগি আর রাজনীতি করছে। বাংলাদেশের মানুষ এই অপরাজনীতিবিদদের প্রত্যাখ্যান করেছে, প্রত্যাখ্যান করবে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর