১০ হাজার টাকায় প্রক্সি দিতে গিয়ে ধরা খেল মাসুদ!
১০ হাজার টাকায় প্রক্সি দিতে গিয়ে ধরা খেল মাসুদ!

১০ হাজার টাকায় প্রক্সি দিতে গিয়ে ধরা খেল মাসুদ!

অনলাইন ডেস্ক

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সি দিতে গিয়ে ধরা খেলেন মাসুদ সরকার নামের এক বিসিএস পরীক্ষার্থী। বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর মুহম্মদ ইয়াকুব গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জুলকারনাইন শাহী নামের গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের এক পরীক্ষার্থী বিশ্ববিদ্যালয়ের ডি ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষা দেয়ার জন্য আবেদন করেছিলেন। রবিবার বিকেলে তার পরীক্ষা থাকলেও অংশ নেননি।

তার পরিবর্তে অংশ নেন ১০ হাজার টাকায় চুক্তিতে গাইবান্ধারই বাসিন্দা মাসুদ সরকার। কথা ছিল, প্রক্সি পরীক্ষা দিয়ে টিকিয়ে দিতে হবে। তবে পরীক্ষার হলে বাধল যত বিপত্তি।

বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে, পরীক্ষার্থীরা কেন্দ্রে প্রবেশ করেন ২টা ১৫ মিনিটে। মাসুদও কেন্দ্রে যথাসময়ে উপস্থিত হন। সঙ্গে প্রবেশপত্র, রেজিস্ট্রেশন কার্ড, ছবিসহ যাবতীয় কাগজপত্র নিয়ে আসেন। তবে এর সবই ছিল ভুয়া। পরীক্ষা শুরুর পর ছবির সঙ্গে মাসুদের চেহারার মিল পাননি কেন্দ্রের দায়িত্বে থাকা শিক্ষকেরা। পরে তারা খবর দেন প্রক্টরিয়াল বডির সদস্যদের। তারা এসে মাসুদকে প্রক্টর কার্যালয়ে নিয়ে যান।  

পরে জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানতে পারেন, গত শুক্রবার বিসিএস পরীক্ষা দিয়েছেন মাসুদ। পড়েন কারমাইকেল কলেজের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের স্নাতকোত্তর শ্রেণিতে। অন্যদিকে জুলকারনাইন গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের বাসিন্দা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর মুহম্মদ ইয়াকুব বলেন, মাসুদ গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষায়ও অংশ নিয়েছেন। যার হয়ে অংশ নেন, তিনি উত্তীর্ণ হয়েছেন। এ কথা মাসুদ স্বীকার করেছেন। জুলকারনাইনের সঙ্গে তার ফেসবুকে পরিচয় হয়। পরে টাকার বিনিময়ে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষা দিতে আসেন।

প্রসঙ্গত, রবিবার দ্বিতীয় দিনের মতো ডি ইউনিটের দুই শিফটের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এই পরীক্ষা দেয়ার জন্য আবেদন করেছিলেন ৫৪ হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী।

আরও পড়ুন:

ধর্মানুভূতিতে আঘাতের অভিযোগে মেঘদল ব্যান্ডের বিরুদ্ধে মামলা


news24bd.tv/ নকিব

;