স্ত্রী-শ্যালিকা একসঙ্গে অন্তঃসত্ত্বা, ধরা আলম
স্ত্রী-শ্যালিকা একসঙ্গে অন্তঃসত্ত্বা, ধরা আলম

স্ত্রী-শ্যালিকা একসঙ্গে অন্তঃসত্ত্বা, ধরা আলম

অনলাইন ডেস্ক

শ্যালিকাকে অন্তঃসত্ত্বা করার অভিযোগে দুলাভাই আলম মিয়াকে (৩০) বৃহস্পতিবার রাত পৌনে ১১টায় নিজ বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ময়মনসিংহের ফুলপুরের ঘটনা এটি।

অভিযুক্ত আলম ফুলপুর সদর ইউনিয়নের নয়াগাঁও প্রকাশ নগুয়া গ্রামের মৃত আহমাদ আলীর ছেলে।

তিনি পেশায় একজন রাজমিস্ত্রি।

কথা হয় আলমের শ্বশুরের সঙ্গে। তিনি বলেন, তার ছোট মেয়ে ফুলপুরের একটি কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্রী (১৭)। কলেজে যাওয়ার পথে প্রায় ৪ মাস আগে তার বড় মেয়ের জামাতা আলম তাকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। বিষয়টি জানার পর তার বাড়ি গিয়ে জানালে আলমের পরিবার বিষয়টি স্বীকার করে এবং মেয়েকে ফেরত দেবে বলে কথা দেন।

‘কিন্তু ৪ মাস অতিবাহিত হয়ে গেলেও মেয়েকে ফেরত দেয়নি। শুনেছি তাকেও সে বিয়ে করে ফেলেছে এবং বর্তমানে আমার দুই মেয়েই অন্তঃসত্ত্বা। ’

ছোট মেয়েকে ফেরত না পেয়ে ও বড় মেয়ের সংসার ভাঙার কারণে অবশেষে আলমের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। এরপর বৃহস্পতিবার রাত পৌনে ১১টায় তার নিজ বাড়ি থেকে আলমকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানান মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই কবির।

আরও পড়ুন:


মাদারীপুরে পরিবহন ধর্মঘট

হিমালয় কন্যা পঞ্চগড়ে শীতের আমেজ

নিজ বাড়িতে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ

ফুলপুর থানার ওসি আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, আলমকে আমরা গ্রেপ্তার করে শুক্রবার বিকেল তিনটার দিকে ময়মনসিংহ আদালতে সোপর্দ করেছি।

এখন দুই বোনই বাবার হেফাজতে রয়েছে। আলমের সহযোগীদেরও খোঁজা হচ্ছে বলে জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

news24bd.tv/ তৌহিদ

সম্পর্কিত খবর