আইল্যান্ড পিকের চূড়ায় বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি পৌঁছে দিলেন শায়লা
আইল্যান্ড পিকের চূড়ায় বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি পৌঁছে দিলেন শায়লা

আইল্যান্ড পিকের চূড়ায় বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি পৌঁছে দিলেন শায়লা

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশের পর্বতারোহী শায়লা বীথি জয় করেছেন হিমালয়ের আইল্যান্ড পিক। শুধু তাই নয়, আইল্যান্ড পিকের চূড়ায় ওঠে বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি পৌঁছে দিয়েছেন শায়লা।

এ সময় তিনি ধর্ষণ ও সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী বেশ কিছু বার্তা সম্বলিত প্ল্যাকার্ডও বহন করেন।

গত সোমবার (০৮ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে পর্বতটির চূড়ায় পৌঁছান শায়লা।

নেপালের কাঠমাণ্ডু থেকে রওয়ানা দিয়ে ১১ দিনে হিমালয়ের ছয় হাজার ১৬০ মিটার উঁচু এই পর্বতটি জয় করেন তিনি।

এই অভিযানে শায়লা বিথী হিমালয়ে বিখ্যাত ‘থ্রি পাস’ পাড়ি দেন। তিনি গত ৬ নভেম্বর কংমালা পাস, ৪ নভেম্বর চোলা পাস, ২ নভেম্বর রেঞ্জোলা পাস পাড়ি দেন। অভিযানে শায়লা বিথীর সঙ্গে একজন নেপালি শেরপা ও একজন পোর্টার ছিলেন।  

এ অভিযানে আইল্যান্ড পিকের চূড়ায় বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি পৌঁছে দিয়েছেন শায়লা। তিনি ধর্ষণ, সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী এবং পরিবেশ রক্ষায় নানা বার্তা সম্বলিত প্ল্যাকার্ডও বহন করেন।  

শায়লা বিথী গত ২৫ অক্টোবর নেপালের কাঠমান্ডুর উদ্দেশে ঢাকা থেকে যাত্রা করেন। এরপর ২৮ অক্টোবর ভোরে কাঠমান্ডু থেকে বিমানে করে লুকলা গিয়ে পৌঁছেন। লুকলা থেকেই মূলত অভিযাত্রীদের ট্রেকিং শুরু হয়। লুকলা নেমে সেখান থেকে ফাকদিন নামে একটি গ্রামে গিয়ে রাত্রিযাপন করেন। পরের দিন তারা নেপালের বিখ্যাত পাহাড়ি শহর নামচে বাজার পৌঁছান। সেখান থেকে পরদিন থামে নামে একটি গ্রামে পর্যন্ত পৌঁছান।  

৭ নভেম্বর বিকেল ৪টার দিকে আইল্যান্ড পিকের হাই ক্যাম্পে পৌঁছান শায়লা বিথী। সেখান থেকে রাত ২টা ২০ মিনিটে পর্বত চূড়ার দিকে যাত্রা শুরু করেন। সকাল ৮ টা ৩৫ মিনিটের দিকে চূড়ায় পৌঁছে যান। পরে তিনি সেখান থেকে সফলভাবে নেমে আসেন। এখন তিনি ফেরার পথে রয়েছেন। আগামী ১২ নভেম্বর শায়লা বিথীর কাঠমান্ডুতে পৌঁছানোর কথা রয়েছে। সেখান থেকে তিনি ১৫ নভেম্বর ঢাকায় ফিরবেন।  

গত বছর স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিবর্ষ উপলক্ষে একটি ৬ হাজার, একটি ৭ হাজার ও একটি ৮ হাজার মিটার পর্বত অভিযানের ঘোষণা দেন শায়লা বিথী। এ অভিযানের অন্যতম লক্ষ্য পৃথিবীর সর্বোচ্চ স্থান এভারেস্টের চূড়ায় বাংলাদেশের পতাকা ও বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি পৌঁছে দেয়া।  

আরও পড়ুন

স্ত্রীর পর শ্যালিকা অন্তঃসত্ত্বা, যুবক গ্রেপ্তার

চীন রাজ্যে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর তীব্র সহিংসতা

চলে গিয়েও ফিরলেন মির্জা ফখরুল

দ্বিতীয় দিনের ধর্মঘটেও ভোগান্তিতে মানুষ, গুনতে হচ্ছে বাড়তি ভাড়া


 

ঢাকা ট্রাভেল এন্ড ট্রেকিং ক্লাব এ অভিযানটির সার্বিক বিষয়গুলো তত্ত্বাবধান করছে। শায়লা বিথী প্রথম পর্বত জয় করেন ২০১৬ সালে। এ বছর তিনি হিমালয়ের ৬৪৭৪ মিটার উঁচু মেরা পিক জয় করেন। এরপর ২০১৮ সালে তিনি তিব্বতের ৭০৪৫ মিটার উঁচু লাকপারি পর্বত জয় করেন। ২০১৯ সালে তিনি প্রথম বাংলাদেশি নারী হিসেবে হিমালয়ের দুর্গম তাশি লাপচা পাস অতিক্রম করেন।

আজ এক বিবৃতিতে শায়লা বিথী বলেন, একজন পর্বতারোহী হিসেবে এদেশের মুক্তিযুদ্ধ ও জাতির জনকের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে আমি এ অভিযানের পরিকল্পনা করি। এ অভিযানে যারা সহযোগিতা করেছেন আমি প্রত্যেকের প্রতি কৃতজ্ঞ।

শায়লা বিথীর আইল্যান্ড পিক জয়ে বিভিন্ন মহল থেকে অভিনন্দন জানানো হয়েছে।

news24bd.tv/আলী

;