যুক্তরাষ্ট্রে 'ধর্ষণ' নিয়ে রসিকতা করে বিপাকে ভারতীয় কমেডিয়ান
যুক্তরাষ্ট্রে 'ধর্ষণ' নিয়ে রসিকতা করে বিপাকে ভারতীয় কমেডিয়ান

যুক্তরাষ্ট্রে 'ধর্ষণ' নিয়ে রসিকতা করে বিপাকে ভারতীয় কমেডিয়ান

অনলাইন ডেস্ক

যুক্তরাষ্ট্রে একটি স্ট্যান্ড-আপ কমেডি শো-তে বিতর্কিত মন্তব্য করে বিপাকে পড়েছেন ভারতের শীর্ষস্থানীয় একজন কমেডিয়ান ভীর দাস। ভীর দাস একটি দেশের দুটি বিপরীত অবস্থানের কথা বর্ণনা করে বলেন- "দিনের বেলায় মানুষ নারীদের পূজা করে, কিন্তু রাতে তাদের গণধর্ষণ করে"। গত ১২ই নভেম্বর ওয়াশিংটন ডিসিতে ওই বক্তব্য দেন তিনি। খবর বিবিসির।

এই বক্তব্যের বিরুদ্ধে তীব্র প্রতিক্রিয়ার পর ভীর দাস এটিকে 'দুটি সম্পূর্ণ আলাদা ভারতের সহাবস্থানের বিষয়ে রম্য' বলে অভিহিত করেছেন।

চলমান বিশ্ব ভ্রমণের অংশ হিসেবে ১২ই নভেম্বর ওয়াশিংটন ডিসিতে ওই বক্তব্য পরিবেশিত হয়। পরে সাত মিনিটের একটি ভিডিও আপলোড করা হয়, যা মুহূর্তেই ভাইরাল হয়ে যায়।

ভিডিওতে দর্শকদের উদ্দেশ্যে ৪২ বছর বয়সী এই কৌতুক অভিনেতা বলেন, আমি এমন একটি ভারত থেকে এসেছি যেখানে একিউআই বা এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্স (বায়ু মানের সূচক) ৯০০০, কিন্তু আমরা এখনও ছাদে ঘুমাই এবং আকাশের তারা দেখি।

গত মাসে বিক্ষোভকারী কৃষকদের উপর উঠিয়ে দেয়া সরকারী এক মন্ত্রীর মালিকানাধীন একটি গাড়ির কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমি এমন একটি ভারত থেকে এসেছি যেখানে আমরা নিরামিষভোজী হওয়ার জন্য গর্ব করি, এবং তারপরও আমাদের শাকসবজি চাষী কৃষকদের চাপা দিতে পিছপা হই না

এ ঘটনায় তার উপরে ক্রুদ্ধ হয়েছেন অনেকেই। ক্ষমতাসীন ডানপন্থী বিজেপি দলের দিল্লির একজন মুখপাত্র বলেন, তিনি পুলিশের কাছে মি. দাসের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছেন। সেখানে 'নারী ও ভারতের বিরুদ্ধে অবমাননাকর বক্তব্য' দেওয়ার অভিযোগ আনা হয়েছে।

আদিত্য ঝা বলেন, এই বক্তব্য যুক্তরাষ্ট্রে দেয়া হয়েছে, যা আন্তর্জাতিকভাবে আমাদের দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট করেছে। আমি চাই পুলিশ এর তদন্ত করুক।

এছাড়া সহকর্মী কঙ্গনা রানাওয়াত ইনস্টাগ্রামে একে 'মৃদু সন্ত্রাস' বলে অভিহিত করে বলেন, এই ধরনের অপরাধীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া উচিত।

তবে অনেক বিরোধী রাজনীতিবিদ এই কৌতুক অভিনেতার পক্ষে দাঁড়িয়েছেন। কংগ্রেসের একজন সদস্য শশী থারুর টুইটারে লিখেছেন, মি. দাস লক্ষ লক্ষ মানুষের জন্য কথা বলেছেন।  

তিনি আরও বলেন, তিনি একজন স্ট্যান্ড আপ কমেডিয়ান- যিনি জানেন যে 'স্ট্যান্ড আপ' শব্দের আসল অর্থ শারীরিক বা বস্তুগত নয় বরং নৈতিক।

তবে এই বিষয়ে ভীর দাস তার অভিনয়ের পক্ষে বিবৃতিতে বলেন, যে কোন জাতিরই যেমন ভালো-মন্দ, আলো-আঁধার দুটি দিকই আছে। এগুলোর কোনোটিই গোপন নয়। দয়া করে এডিট করা কিছুর টুকিটাকি কথায় প্রতারিত হবেন না।

আরও পড়ুন:

মিরপুরে দর্শকদের জন্য টিকাসনদ বাধ্যতামূলক


news24bd.tv/ নকিব