মস্কোর সাথে ওয়াশিংটনের উত্তেজনা আরও তিব্র হচ্ছে
Breaking News
মস্কোর সাথে ওয়াশিংটনের উত্তেজনা আরও তিব্র হচ্ছে

মস্কোর সাথে ওয়াশিংটনের উত্তেজনা আরও তিব্র হচ্ছে

অনলাইন ডেস্ক

ইউক্রেন ইস্যুতে মস্কোর সাথে ওয়াশিংটনের উত্তেজনা আরো তিব্র হচ্ছে। রাশিয়া ইউক্রেনে  আক্রমণের যে পরিকল্পনা সাজাচ্ছে তার পরিণাম ভয়াবহ বলে সতর্কবার্তা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

এমনকি ইউক্রেন ইস্যুতে রাশিয়ার রেড লাইন মানবেন না বলে সাফ জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।   এদিকে ঘরের পাশে নেটোর সামরিক তৎপরতা  ইউরোপে আবারো যুদ্ধের দুঃস্বপ্ন দেখতে হতে পারে বলে হুশিয়ারী দিয়েছে রাশিয়া।

  

ইউক্রেনের সীমান্তে জড়ো হয়েছে প্রায় ৯০ হাজার রাশিয়ান সেনা। মার্কিন গনমাধ্যাম বলছে, ২০২২ সালের শুরুতে ইউক্রেনে আক্রমণ করতে পারে রাশিয়া। বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে পাল্টাপাল্টি মন্তব্য করছে যুক্তরাষ্ট্র এবং রাশিয়া, কথা হচ্ছে হুমকির সুরে।  

তবে উওেজনা কমাতে চলতি সপ্তাহে ভার্চ্যুয়ালি বৈঠকে বসার কথা রয়েছে বাইডেন ও পুতিনের। রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের সঙ্গে দীর্ঘক্ষণ আলাপের আশাবাদ ব্যক্ত করেছে প্রেসিডেন্ট বাইডেন। তবে এও সতর্ক করেন যে, রাশিয়ার দেওয়া কোনও রেড লাইন মেনে নেবেন না ওয়াশিংটন।  

এর আগে সুইডেনে নিরাপত্তা ও সহযোগিতা বিষয়ক সম্মেলনে, মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী সাথে রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ল্যাভরভের বৈঠক যেন সেই উওেজনা আরো বাড়িয়েছে। রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাবরভ যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিঙ্কেনের পাশে দাঁড়িয়ে স্পষ্ট করে বলেছেন, রাশিয়া তার ঘরের পাশে নেটো সামরিক জোটের নতুন কোনো তৎপরতা কোনোভাবেই সহ্য করবে না।

আরও পড়ুন:

ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের বাধা

আজ আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় 'জাওয়াদ'

নেটো জোটের সামরিক অবকাঠামো রাশিয়ার সীমান্তে নিয়ে আসা হচ্ছে। রোমানিয়া এবং পোল্যান্ডে আমেরিকান ক্ষেপণাস্ত্র বিধ্বংসী ব্যবস্থা মোতায়েন করা হচ্ছে। যার অর্থ ইউরোপে সামরিক সংঘাতের দুঃস্বপ্ন পুনরায় ফিরে আসছে
এদিকে অভিযোগ  উঠছে  ইউক্রেন সীমান্তে  আরো বেশি সেনা সমাবেশের বিস্তার ঘটাচ্ছে রাশিয়া। প্রতিবেশী ইউক্রেনে ১ লাখ ৭৫ হাজার সেনা নিয়ে বহুমুখী আক্রমণের পরিকল্পনা সাজিয়েছে মস্কো।

 news24bd.tv/এমি-জান্নাত  

;