মুরাদ হাসানের এমপি পদের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট
মুরাদ হাসানের এমপি পদের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট

ফাইল ছবি

মুরাদ হাসানের এমপি পদের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট

অনলাইন ডেস্ক

বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে সদ্য পদত্যাগ করা ডা. মুরাদ হাসানের এমপি পদের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট দায়ের করেছেন অ্যাডভোকেট ইউনুছ আলী আকন্দ। রিটে ডা. মুরাদ হাসানের কর্মকাণ্ডের বিচার বিভাগীয় তদন্তও চেয়েছেন তিনি।

বুধবার (৮ ডিসেম্বর) হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় জনস্বার্থে এ রিট দায়ের করেন সুপ্রিম কোর্টের এই আইনজীবী। রিট আবেদনটি বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার হাইকোর্ট বেঞ্চে শুনানির জন্য উপস্থাপন করা হবে বলেও জানান তিনি।

মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) দুপুরে মন্ত্রীসভায় পদত্যাগপত্র পাঠান তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. মুরাদ হাসান। রাতে সেটি গ্রহণ করেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। এরপর এ বিষয়ে সরকারি গেজেট প্রকাশিত হয়।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে প্রজ্ঞাপন জারির পর প্রকাশিত গেজেট বলা হয়েছে, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মুরাদ হাসানের পদত্যাগপত্র রাষ্ট্রপতি কর্তৃক গৃহীত হয়েছে। এ পদত্যাগ অবিলম্বে কার্যকর হবে।
 
সম্প্রতি বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার পরিবার নিয়ে মুরাদ হাসানের বক্তব্য সংবলিত একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়। ওই ভিডিওতে খালেদা জিয়ার নাতনি জাইমা রহমান সম্পর্কে ‘অশ্লীল ও কুরুচিপূর্ণ’ মন্তব্য করতে শোনা যায় তাকে। তার ওই বক্তব্যের সমালোচনায় সোচ্চার হয়েছিলেন নারী অধিকারকর্মীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ।  এছাড়াও চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির সঙ্গে প্রতিমন্ত্রী মুরাদের একটি অডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছ। সেখানে মাহিকে ‘কুরুচিপূর্ণ’ কথা বলতে শোনা গেছে।

আরও পড়ুন


রাজধানীতে ৭ ভবন থেকে লাফিয়ে স্কুলছাত্রের আত্মহত্যা

news24bd.tv এসএম