টর্নেডোর আঘাতে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্টাকিতে মৃত্যু ৮৪ ছাড়ালো

টর্নেডোর আঘাতে যুক্তরাষ্ট্রের কেন্টাকিতে মৃত্যু ৮৪ ছাড়ালো

ডেস্ক রিপোর্ট

শক্তিশালী টর্নেডোর আঘাতে লন্ডভন্ড হওয়া যুক্তরাষ্ট্রের কেনটাকি অঙ্গরাজ্যে প্রাণহানির সংখ্যা ৮৪ ছাড়িয়েছে। মৃতের সংখ্যা শতাধিক ছাড়িয়ে যেতে পারে বলেও আশঙ্কা করা হচ্ছে। এরিই মধ্যে কেনটাকিজুড়ে জারি করা হয়েছে জরুরি অবস্থা। এদিকে ক্ষতিগ্রস্থদের সাহায্যের জন্য প্রশাসনেকে সর্বোচ্চ নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

 

মাইলের পর মাইল এসব বিধ্বস্ত ঘরবাড়ির চিত্র বলে দিচ্ছে কতটা ঝড় বয়ে গেছে  যুক্তরাষ্ট্রের কেনটাকিবাসির ওপর দিয়ে। যেদিকে চোখ যায় টর্নেডোর এমন আঘাতের চিহ্ন। বাড়ছে হতাহতের সংখ্যা। পরিস্থিতি খারাপের দিকে যেতে পারে, এমন আশঙ্কা থেকে রাজ্যজুড়ে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়েছে।

কেনটাকির গভর্নর অ্যান্ডি বেশিয়ার জানান, শুক্রবার রাতে অন্তত চারটি টর্নেডো কেনটাকির বিভিন্ন অংশে তাণ্ডব চালায়,  ঝড়ের আঘাতে মেফিল্ড শহর সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। একটি মোমবাতি কারখানা বিধ্বস্ত হয়ে বেশি হতাহতের ঘটনা ঘটে । জরুরি উদ্ধারকাজে সহায়তা করার জন্য ন্যাশনাল গার্ড সদস্যকে মোতায়েন করা হয়েছে। এরিই মাঝে ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় সাহায্যের জন্য প্রশাসনেকে সর্বোচ্চ নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন।

আরও পড়ুন:

বসের ধমক খেয়ে তেলের ডিপোতে আগুন দিলেন নারী কর্মী!

ইয়েমেনে হুথি বিদ্রোহীদের লক্ষ্য করে অব্য্যাহতভাবে হামলা

পরমাণু সমঝোতায় কোনো ছাড় দিবে না ইরান

পরিস্থিতি খুব কাছ থেকে পর্যবেক্ষণ করছি। যুদ্ধ বিধ্বস্ত এলাকা মনে হয়েছে। এটি আমাদের ইতিহাসের সবচেয়ে বড় টর্নেডোর আঘাতের একটি। ক্ষয়ক্ষতি সামাল দিতে  রাজ্যগুলির গভর্নরদের সাথে কথা বলেছি। ক্ষয়ক্ষতি সামাল দিতে  সর্বোচ্চ সহায়তা দেওয়া হবে।  

শুধু কেনটাকি নয়, যুক্তরাষ্ট্রের আরও কয়েকটি অঙ্গরাজ্য ঝড়ের কবলে পড়েছে। ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে ইলিনয়, আরকানসাস ও টেনেসি অঙ্গরাজ্যের কয়েকটি এলাকায়। শক্তিশালী এক ঝড়ে লন্ডভন্ড হয়ে যায় ই কমার্স প্রতিষ্ঠান আমাজনের একটি গুদাম। সেখানে প্রায় ১০০ কর্মী আটকা পড়েন।

news24bd.tv/এমি-জান্নাত