ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজের বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন
ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজের বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন

বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন

মুক্তিযুদ্ধের প্রবাসী সংগঠকদের ৫০ জনের তালিকা প্রকাশ

ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজের বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন

অনলাইন ডেস্ক

বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করলো ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজ প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের সংগঠকদের সম্মাননা ও স্বীকৃতির মাধ্যমে সকল প্রবাসীদের সম্মানিত করার উদ্যোগ নিয়েছে প্রবাসী বাংলাদেশীদের আন্তর্জাতিক সংগঠন ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজ।

বিজয়ের ৫০ বছর উদযাপনকালে গত বৃহস্পতিবার ১৬ ডিসেম্বর লন্ডন থেকে এক ভার্চুয়াল সভার মাধ্যমে মুক্তিযুদ্ধের প্রবাসী সংগঠকদের ৫০ জনের একটি  তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে।

ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজ’এর চেয়ার ড. হাসনাত এম হোসাইন এমবিই এই উপলক্ষে বলেন, ডিসেম্বর আমাদের বিজযের মাস। মহান মুক্তিযুদ্ধে মাতৃভূমির এই বিজযের জন্য অসংখ্য প্রবাসীদের আত্মত্যাগ আর অবদান জাতি কোনদিন ভুলতে পারে না।

ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশিজ’এর পক্ষ থেকে বিজয়ের ৫০ বছরের এই দিনে ৫০ জন প্রবাসীর প্রথম তালিকা প্রকাশ করে আমরা সকল প্রবাসীদের আত্মত্যাগের প্রতি শ্রদ্ধা, ভালোবাসা ও সম্মান প্রদর্শন করছি। পর্যায়ক্রমে দল মত নির্বিশেষে মুক্তিযুদ্ধে বিশ্ব জনমত গঠনে তাঁদের অকৃত্রিম  অবদানকে স্বীকৃতি প্রদান করা হবে। সংস্থার পক্ষ থেকে ২০২২ সালের মার্চ মাসে লন্ডনে আনুষ্ঠানিকভাবে এই সম্মাননা প্রদান করা হবে বলে জানানো হয়েছে।

ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজের চেয়ারপারসন ড: হাসনাত এম হোসেন এমবিইর সভাপতিত্বে ও ডাইরেক্টর জেনারেল আ ম ওহিদ আহমেদের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় সংগঠনের কর্মকর্তাদের মধ্যে নিউক্যাসেল থেকে প্রবাসে মুক্তিযুদ্ধের সংগঠকদের তালিকা প্রণয়ন কমিটির চেয়ারম্যান সৈয়দ নাদির আজিজ দারাজ, ট্রেজারার  মাহতাব মিয়া, লন্ডন থেকে মিডিয়া ডিরেক্টর কে এম আবু তাহের চৌধুরী, প্রফেসর আব্দুল কাদের সালেহ, ওয়াশিংটন থেকে শরাফত হোসেন বাবু, নিউইয়র্ক থেকে হাসান আলী, সংগঠনের ভাইস চেয়ার মাহিদুর রহমান, ইন্টারন্যাশনাল রিলেশনস ডিরেক্টর শামসুল আলম লিটন, ব্যারিস্টার নজরুল খসরু প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। এছাড়া অন্যান্যের মধ্যে আলোচনায় অংশ নেন, লন্ডন বাংলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এমাদুল হক চৌধুরী, কানাডার মন্ট্রিয়াল থেকে অংশ নেন লেখক গবেষক মাহমুদ হাসান, অস্ট্রেলিয়া থেকে প্রফেসর হুমায়ের চৌধুরী, মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরে থেকে মাহবুব আলম শাহ, ডা. ওয়াহিদুল আলম, সাংবাদিক এনাম চৌধুরী, গীতিকার সুরকার  সাদিকুর রহমান ও জার্মানি থেকে মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ারুল কবির।

ভয়েস ফর গ্লোবাল বাংলাদেশীজ’এর উদ্যোগে বিজয় দিবস উদযাপন অনুষ্ঠানে ডাক্তার জাফরুল্লাহ চৌধুরী আয়োজকদের ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, স্বাধীনতার ৫০ বছর পর এই কাজটি অত্যন্ত জরুরী। প্রবাসীদের বিশেষ করে বিলাতের মানুষের প্রত্যেকের অবদান একটা প্রামাণ্য দলিল হিসেবে সংরক্ষণ করা দরকার। এতে অতীতের পাশাপাশি বর্তমান ও ভবিষ্যৎ প্রজন্ম বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় ভূমিকা রাখতে উৎসাহিত হবে।  

তিনি বলেন, যুক্তরাজ্য প্রবাসীরা ৬৯-এ বিলেত থেকে চাঁদা তুলে আইনজীবী না পাঠালে হয়তো তখনই পাকিস্তানীরা মুজিব ভাইকে ফাঁসি দিয়ে দিতো। তাহলে হয়তো আজকের ইতিহাস হতো অন্যরকম। ডাক্তার জাফরুল্লাহ চৌধুরী লন্ডন প্রবাসীদের সম্মিলিত উদ্যোগে যুক্তরাজ্যে কোন একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে মুক্তিযুদ্ধ গবেষণায় একটি প্রোগ্রাম চালু করার আহ্বান জানান। এছাড়া বাংলাদেশের প্রতিটি গ্রামে শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের নামের তালিকা দিয়ে স্মৃতিসৌধ গড়ার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশনে সকলে অংশ নেন। পরে সঙ্গীত শিল্পী সাদিকুর রহমানের গান, হাসান মাহমুদ ও নাদির দারাজের কবিতা পাঠের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠিত হয় বিজয়ের সুবর্ণ জয়ন্তী'র জমজমাট ও প্রাণবন্ত সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত ও পরে শহীদদের রুহের মাগফিরাত কামনা করে দোয়া পরিচালনা করেন সংগঠণের অন্যতম ডাইরেক্টর প্রফেসর আব্দুল কাদের সালেহ।

আরও পড়ুন:

যে কারণে বিয়ের আসরেই বরকে গণধোলাই!

জুতা সেলাই করছে বন্ধু, পাশে বসে গল্প করছেন মাশরাফি

প্রবাসী মুক্তিযুদ্ধের সংগঠকদের  তালিকা : 

প্রথম পর্যায়ে প্রকাশিত (৫০ জনের) এই তালিকায় রয়েছেন, বিচারপতি আবু সাঈদ চৌধুরী (লন্ডন), ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী  (লন্ডন), যুক্তরাষ্ট্র থেকে শাহ এএমএস কিবরিয়া ও আবুল মাল আবদুল মুহিত, মিসেস লুলু বিলকিস বানু (লন্ডন), মরহুম গৌছ খান (লন্ডন), মরহুম তৈয়বুর রহমান (লন্ডন), সিরাজুর রহমান (বিবিসি বাংলা), মরহুম আব্দুল মতিন চৌধুরী (ম্যানচেস্টার), মরহুম তাসাদ্দুক আহমেদ (লন্ডন), ড. কবির চৌধুরী (ম্যানচেস্টার), ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন (লন্ডন), আব্দুল মান্নান ছানু মিয়া (লণ্ডন),ওয়াহিদ উদ্দিন আহমেদ কুতুব (নিউক্যাসল), মরহুম হাফিজ মজির উদ্দিন (লন্ডন), মরহুম শেখ আব্দুল মান্নান (কভেন্ট্রি), মরহুম আলহাজ্ব শামসুর রহমান (লন্ডন), মরহুম মিনহাজ উদ্দিন (লন্ডন), মরহুম আফরোজ মিয়া হাতেম তাই (বার্মিংহাম), মরহুম জাকারিয়া চৌধুরী (লন্ডন), মরহুম ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ (লন্ডন), মরহুম শামসুল আলম চৌধুরী (লন্ডন), আলহাজ্ব সামসুদ্দিন আহমেদ এমবিই (চেষ্টার), আলহাজ্ব মোতাসিম আলী (কভেন্ট্রি), তোজম্মেল হক এমবিই (টনি হক- বার্মিংহাম), মরহুম ওয়ালী আশরাফ (লন্ডন-জনমত), মিসেস ফেরদৌস রহমান (লন্ডন), মরহুম বদরুল হোসেন তালুকদার (লন্ডন), মরহুম এএম এ হক (বার্মিংহাম), মরহুম মনোয়ার হোসেন (ব্রাডফোর্ড), মরহুম মো. আব্দুর রকিব (লন্ডন), সুলতান মাহমুদ শরীফ (লণ্ডন) আলহাজ্ব নাসির আহমেদ (বার্মিংহাম), আলহাজ্ব জিল্লুল হক (লন্ডন), মরহুম আলহাজ্ব মো. আলী ইসমাইল (বার্মিংহাম), মরহুম মো. রেজাউল করিম (বাংলাদেশ মিশন-লন্ডন), মরহুম মো. নাজির উদ্দিন আহমেদ (ম্যানচেস্টার), মরহুম মো. সবুর চৌধুরী (বার্মিংহাম), মরহুম সৈয়দ আব্দুর রহমান (বার্মিংহাম), মরহুম মকসুদ আলী (ওল্ডহ্যাম), কবি দবিরুল ইসলাম চৌধুরী এমবিই (সেন্ট আলবন্স), মরহুম মঈন উদ্দিন আহমেদ মনাফ মিয়া (লন্ডন), আলহাজ্ব মিম্বর আলী (লন্ডন), আতাউর রহমান খান (লন্ডন), আলহাজ্ব আফতাব আলী (ইপসউইচ),মরহুম মোশাহিদ আলী চৌধুরী (লন্ডন), মরহুম হাজী নেসার আলী (লন্ডন), মরহুম আমির আহমদ সিংকাপনী (লন্ডন), মরহুম মকদ্দুছ বখত (ম্যানচেস্টার) ও খন্দকার আব্দুল মোসোব্বির এমবিই (রচডেল)।

আগামী মার্চ মাসে আরও ৫০ জন সংগঠকদের নাম ঘোষণা করা হবে।

news24bd.tv/ কামরুল 

;