ভয় দেখিয়ে মানুষের কাছে ‌‘টাকা আদায়’ ছিল তাদের কাজ
ভয় দেখিয়ে মানুষের কাছে ‌‘টাকা আদায়’ ছিল তাদের কাজ

র‌্যাবের হাতে আটক ভূয়া র‌্যাব

ভয় দেখিয়ে মানুষের কাছে ‌‘টাকা আদায়’ ছিল তাদের কাজ

মোহাম্মদ আল-আমীন, গাজীপুর 

গাজীপুর মহানগরীর গাছা এলাকা থেকে ভুয়া র‍্যাব পরিচয়ে চাঁদাবাজি সহ বিভিন্ন অপরাধের জড়িত পাঁচজনকে আটক করেছে র‍্যাব-১।

গত সোমবার ২০ ডিসেম্বর নগরীর গাছা থানাধীন কুনিয়া বড়বাড়ি এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।

মঙ্গলবার ২১ ডিসেম্বর বিকেলে র‍্যাব-১ এর সহকারী পরিচালক (অপস্ অফিসার) নোমান আহমদ সাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

আটকরা হলেন- পাবনা জেলার আজমত আলীর ছেলে নাজমুল হোসেন (২৬), টাঙ্গাইল জেলার লোকমান হোসেনের ছেলে নাহিদ হাসান (২৪), ঢাকা জেলার মৃত লুকু মন্ডলের ছেলে তাজুল ইসলাম (৫০), কুমিল্লা জেলার মৃত আনা মিয়ার ছেলে সুমন মিয়া (২৮), গাজীপুর জেলার মৃত রামমহনের ছেলে সুচিত্র রবিদাস (২৬)।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরো জানানো হয়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নগরীর কুনিয়া বড়বাড়ি এলাকা থেকে ভুয়া র‍্যাব পরিচয়দানকারী পাঁচজনকে আটক করা হয় এসময় তাদের কাছ থেকে  ২ টি খেলনা পিস্তল, ২ টি পিস্তলের কভার, ২ টি ভূয়া র‌্যাব জ্যাকেট, ৪ টি ভূয়া র‌্যাব আইডি কার্ড, ১ টি নৌ বাহিনীর ইউনিফর্ম, ৩ টি নৌ বাহিনীর ফরমেশন সাইন, ১ টি চাকু, ১ টি ল্যাপটপ, ৫ টি ম্যানিব্যাগ, ৪ টি ব্যাংক চেক, (১ টি ৫ লাখ টাকার চেক), ৮ টি মোবাইল ফোন, নগদ ৩ হাজার ৭শত টাকা, ১ টি টেন্ডার তদারকির নথি এবং জমিজমা ও টাকা উদ্ধার সংক্রান্ত দলিল/স্ট্যাম্প উদ্ধার করা হয়।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, তারা নিজেদের র‌্যাব পরিচয় দিয়ে এলাকার সাধারণ মানুষকে ভয়-ভীতি প্রদর্শন করত। তারা অর্থের বিনিময়ে সাধারণ মানুষকে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে বিভিন্ন বিচার সালিশের রায় নিজেদের পক্ষে নিয়ে আসতো। এই চক্রটি জমি ও টাকা উদ্ধার, বিভিন্ন সরকারি, বেসরকারি খাতের টেন্ডার পাইয়ে দেবার কথা বলে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে প্রতারণার মাধ্যমে অর্থ আত্মসাৎ করে আসছিল। এই চক্রটি সাধারণ মানুষের জমির আর্থিক লেনদেন সংক্রান্ত অভিযোগের সমাধানের নাম করে তাদের কাছ থেকে ভূয়া স্ট্যাম্পে স্বাক্ষর নিত।

আটক আসামিদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

news24bd.tv/ তৌহিদ

;