জেলের টুটি ধরে টেনেহিঁচড়ে লাফিয়ে লাফিয়ে বনে যায় বাঘটি
জেলের টুটি ধরে টেনেহিঁচড়ে লাফিয়ে লাফিয়ে বনে যায় বাঘটি

কাঁকড়া ধরা জেলে মুজিবর রহমানের মরদেহ

জেলের টুটি ধরে টেনেহিঁচড়ে লাফিয়ে লাফিয়ে বনে যায় বাঘটি

অনলাইন ডেস্ক

বাঘে ধরে নিয়ে যাওয়ার ১৬ ঘণ্টা পর কাঁকড়া ধরা জেলের ক্ষতবিক্ষত লাশ উদ্ধার করেছেন স্বজনরা। পশ্চিম সুন্দরবনের পাকড়াতলী খালপাড়ের গহীন জঙ্গলে মঙ্গলবার সকালে তন্নতন্ন করে খুঁজে তার লাশ দেখতে পায় বনবিভাগ, কোস্টগার্ড ও টাইগার টিমের সদস্যসহ সঙ্গীরা।

বাঘ ততক্ষণে তার দেহের একাংশ কামড়ে ও খামচে খেয়ে ফেলেছে। নিথর লাশ নিয়ে স্বজনরা ফিরেছেন বাড়িতে।

সোমবার বিকাল ৪টায় পড়ন্ত বেলায় বনের পাকড়াতলী খালে নৌকার ছাউনির নিচে দিনের ক্লান্তি শেষে রান্নার কাজে হাত দিয়েছিলেন কাঁকড়া ধরা জেলে মুজিবর রহমান (৫০) ও তার সহযোগীরা। কোনোকিছু বুঝে ওঠার আগেই আকস্মিকভাবে একটি মানুষখেকো বাঘ হামলা করে মুজিবরের টুটি ধরে টেনেহেঁচড়ে লাফিয়ে লাফিয়ে বনের শুলোবন দিয়ে টেনে নিয়ে যায়।

বিস্ময়ে হতবাক সঙ্গীরা কোনপ্রকার বাধা সৃষ্টি না করতে পেরে তারা লাশ খুঁজতে থাকেন। কিন্তু সন্ধ্যা হয়ে যাওয়ায় তাকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি।

মুজিবর রহমানের বাড়ি সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার গাবুরা ইউনিয়নের পারশেমারি গ্রামে। তার সঙ্গী ইসমাইল হোসেন মুজিবরকে ধরে নিয়ে যাওয়ার এ বেদনাদায়ক ঘটনা শোনান সবাইকে।

পশ্চিম সুন্দরবনের সাতক্ষীরা রেঞ্জের সহকারী বন সংরক্ষক এমএ হাসান জানান, বনবিভাগের লোকজন, কোস্টগার্ড এবং টাইগার টিমের লোকজন মিলিতভাবে লাশটি খুঁজতে থাকে মঙ্গলবার ভোর থেকে। অবশেষে সকাল ৮টার দিকে তার ক্ষতবিক্ষত লাশ জঙ্গলে পড়ে থাকতে দেখা যায়। উদ্ধারকারী দল লাশটি তুলে নিয়ে স্বজনদের কাছে পৌঁছে দিয়েছে।

news24bd.tv/ তৌহিদ

;