বিএনপি দেশে খুন ও লুটের রাজত্ব কায়েম করেছিলো : নানক 
বিএনপি দেশে খুন ও লুটের রাজত্ব কায়েম করেছিলো : নানক 

বিএনপি দেশে খুন ও লুটের রাজত্ব কায়েম করেছিলো : নানক 

অনলাইন ডেস্ক

খুনী জিয়াউর রহমান ও তার স্ত্রী খালেদা দেশে খুন ও লুটের রাজত্ব কায়েম করেছিলেন বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক।

তিনি বলেন,একের পর এক গ্রেনেড হামলা করে মানুষকে খুন করা, দেশের সম্পদ বিদেশে পাচার করা, লুট করা ছিল বিএনপির প্রধান কাজ। বিভিন্ন বিদেশী কোম্পানী দেশে এসে স্বাক্ষী দিয়েছে। তারেক রহমান আন্তর্জাতিক লেভেলের চোর।

দক্ষিণ সুরমা উপজেলা আওয়ামী লীগ অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের আয়োজনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী এবং মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভায় তিনি প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, সারা বিশ্ব এখন বাংলাদেশের উন্নয়ন অবাক দৃশ্যে দেখছে। যে দেশকে এক সময় তলাবিহীন ঝুড়ি বলা হতো, সেই দেশ এখন বিশ্ব জয় করেছে। বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এখন উন্নয়নের চূড়ান্ত সীমায় পৌছে গেছে।

বিএনপির আমলের বাংলাদেশ আর এখনের বাংলাদেশের মধ্যে অনেক পার্থক্য আছে। মানুষ এখন এক উন্নয়নশীল বাংলাদেশকে দেখছে।

তিনি বলেন, স্বাধীনতার পর ৭৫ সালের ১৫ই আগষ্ট পর্যন্ত দেশের যে উন্নয়ন হয়েছিল, তার পরবর্তী ২১ বছরে অর্থাৎ এরশাদ-জিয়া-খালেদার আমলে হয়নি। পরে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা এসে উন্নয়নের হাল ধরেছিলেন। বিএনপিতে দেশের সম্পদ ধ্বংস করেছিল। নানক বলেন, শেখ হাসিনা সংগ্রাম ও লড়াইয়ের মধ্য দিয়েই দেশে ভোট ও ভাতের অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছেন। মানুষ এখন শেখ হাসিনার নেতৃত্ব নতুন এক বাংলাদেশ বিনির্মাণের স্বপ্ন দেখছে। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ছে।

সাফল্যের বিচিত্র ধারায় এগিয়ে চলেছে বাংলাদেশ

আজও করোনায় দেশে ৩৯ জনের প্রাণহানি

পাহাড়ে তরমুজের বাম্পার ফলন


 

২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলাকে স্মরণ করে জাহাঙ্গীর কবির নানক বলেন, শেখ হাসিনাকে বারবার মৃত্যুর মুখে পতিত হতে হয়েছে। তিনি একজন মৃত্যুঞ্জয়ী প্রধানমন্ত্রী। ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলা করে আমাদের আশা ভরসাকে হত্যা করার চেষ্টা করা হয়েছিল। কিন্তু রাখে আল্লাহ মারে কে। সেদিন আমার মনে হয়েছিল- পেন্ডেলের ৪ কোণে ৪ জন ফেরেস্তা দাঁড়িয়ে শেখ হাসিনাকে রক্ষা করেছিলেন।

তিনি বলেন, ৫০ বছরে বাংলাদেশ আজ ডিজিটাল, ঢাকা থেকে সিলেট ৪ লেন রাস্তা নির্মান হচ্ছে। আন্তর্জাতিক মানের বিমানবন্দরও হয়েছে। বছরের প্রথম দিন বই ফ্রি করে দেওয়া হয়েছে। ঝড়ে পড়া কমে গেছে। নতুন বই দিয়ে বছরের প্রথম দিন শুরু হয়েছে। সব মিলিয়ে দেশ এখন উন্নয়নের এক উজ্জল দৃষ্টান্ত।

দক্ষিণ সুরমা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা সাইফুল আলমের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক এড. শামীম আহমদের পরিচালনায় বিশেষ অথিতির বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক এবং প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া ও অনন্য নেতৃবৃন্দ।

news24bd.tv/আলী