‌‘গোপনাঙ্গে লাথি মেরে’ পরাজিত মেম্বার প্রার্থীকে হত্যা
‌‘গোপনাঙ্গে লাথি মেরে’ পরাজিত মেম্বার প্রার্থীকে হত্যা

প্রতীকী ছবি

‌‘গোপনাঙ্গে লাথি মেরে’ পরাজিত মেম্বার প্রার্থীকে হত্যা

অনলাইন ডেস্ক

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে জয়ী মেম্বার প্রাথীর বিজয় মিছিল থেকে হামলায় পরাজিত মেম্বার প্রার্থী নিহত হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে।

গোবিন্দগঞ্জের হরিরামপুর ইউনিয়নের হরিরামপুর গ্রামে মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে এ ঘটনা ঘটে বলে সূত্রে জানা গেছে।

নিহত ব্যক্তির নাম শাহারুল ইসলাম। তিনি হরিরামপুর ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য পদে রোববার ভোটে দাঁড়িয়েছিলেন।

এই ওয়ার্ডের আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকও ছিলেন তিনি।

নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন গোবিন্দগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি-তদন্ত) মোস্তাফিজুর রহমান।

রোববারের ভোটে শাহারুলকে হারিয়ে মেম্বার নির্বাচিত হন ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি ফিরোজ কবীর। হরিরামপুর গ্রামে তার সমর্থকরা মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিজয় মিছিল করেন।

নিহতের ছেলে শিহাব মিয়া বলেন, ‘আমার বাবা দাওয়াত খেতে যাচ্ছিলেন। ফিরোজের মিছিল থেকে আমাদের একজনকে মারধর করে। এটা শুনে বাবা সেখানে যায়। পরে তাকে বাদ দিয়ে বাবার বুকে, পিঠে ও শরীরের মারধর করে। পরে আব্বার গোপনাঙ্গে লাথিও মারেন ফিরোজ। ’

শিহাব জানান, ফিরোজ কবীর ও তার কর্মী রাজ্জাক, শফিকুল, মজিবুর ও হাতেম তাই তার বাবার ওপর হামলা চালায়। তিনি ও এলাকার লোকজন মিলে শাহারুলকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়। অবস্থার অবনতি হলে তাকে জেলা হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক সুমাইয়া বেগম বলেন, ‘হাসপাতালে আনার পর রোগীকে মৃত পাওয়া যায়। তার পুরুষাঙ্গে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। ঘাড়ে ও পিঠেও লালচে চিহ্ন আছে। ’

আরও পড়ুন:

বসুন্ধরার কম্বল পেয়ে আনন্দে আত্মহারা সত্তোর্ধ্ব বৃদ্ধা আমিরোন

news24bd.tv/  তৌহিদ

;