বৃহস্পতিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৯ | আপডেট ০৫ মিনিট আগে

লড়াইটা দুইয়ের সাথে ছয়ের বলেই এতো ভয়-সংশয়!

• সাহিদ রহমান অরিন

লড়াইটা দুইয়ের সাথে ছয়ের বলেই এতো ভয়-সংশয়!

সুইজারল্যান্ড ম্যাচ দিয়ে আজ রাতে ‘হেক্সা মিশন’ করবে ব্রাজিল। তবে প্রথম ম্যাচেই সেলেসাওদের পাড়ি দিতে হবে বন্ধুর পথ। লড়াইটা যে ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ের দুইয়ের সাথে ছয়ের। তাইতো ভক্তদের মনে এতো ভয়-সংশয়।

বিশ্বকাপ ইতিহাসের সফলতম দল ব্রাজিল জিতবেই- এমন গ্যারান্টি দেয়া যায় না। রাশিয়া বিশ্বকাপে ‘ক্লিয়ার ফেভারিট’ বলে যে কেউ নেই, সেটা ৮ ম্যাচ দেখার পরেই বুঝে গেছেন ফুটবলখোররা।

যে ফ্রান্সকে ফুটবল বিশ্লেষকরা হট ফেভারিট তকমা দিয়েছেন, তারাও কাল কোনো রকমে ৩ পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছেড়েছে। জয় তো জয়ই। তবে ফ্রান্সের কালদের জয়টা বিশ্বকাপ জেতার সক্ষমতা জানান দেয়নি মোটেও।

অন্তত ৮টা দল আছে, যাদের বিশ্বকাপ জেতার ক্ষমতা আছে। বিশ্বকাপ না জিতলেও শেষ চারে উঠতে পারে- এমন দলের তালিকায় ইংল্যান্ড-বেলজিয়ামকে রাখাই যায়।

বেলজিয়ামের স্কোয়াড বলছে, অবিসংবাদিতভাবে তারাই এবারের আসরের তারকা সমৃদ্ধ দল, যাদের ১৯ জন ফুটবলার ইংলিশ-স্প্যানিশ-জার্মান-ইতালিয়ান-ফ্রেঞ্চ ক্লাবে খেলেন।

গ্রুপ যেভাবে সাজানো হয়েছে, তাতে ইংল্যান্ডও এক সাইড ফাঁকা পেয়ে সেমি ফাইনালের টিকিট পেতে পারে। ইংল্যান্ড দলে খুব বেশি ম্যাচ উইনার নেই। কিন্তু প্রতি ম্যাচেই গোল করতে পারে এমন ৩ জন (হ্যারি কেন-জেমি ভার্ডি-মার্কাস রাশফোর্ড) আছেন। তাছাড়া রাশিয়ান কন্ডিশন ইংলিশদের অনুকূলেই রয়েছে।

প্রস্তুতি ম্যাচগুলোতে লাগাতার হারে যে রাশিয়া দেশবাসীর তোপের মুখে পড়েছিল, তারাও মূলপর্বে কী দারুণভাবেই না ঘুরে দাঁড়ালো।

বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন জার্মানিকে নিয়ে আলাদা করে কিছু লেখার নেই। ওদের সেমিতে রেখে বাকিদের খেলতে হয়। জোয়াকিম লোয়ের দল এবারো শিরোপার দিকে শকুনের মতো চেয়ে আছে।

সব মিলিয়ে ‘মহাজমজমাট’ এক বিশ্বকাপ উপহার দেবে রাশিয়া।

অরিন/নিউজ টোয়েন্টিফোর

মন্তব্য